রেকর্ড গড়ার পথে ইংল্যান্ড

রেকর্ড গড়ার পথে ইংল্যান্ড

এবার রেকর্ড গড়ার পথে ইংল্যান্ড। চতুর্থ ইনিংসে কোনো পুঁজিই যেন নিরাপদ নয় ইংল‍্যান্ডের বিপক্ষে। এজবাস্টনে প্রথম দল হিসেবে টেস্টে তিনশ ছাড়ানো সংগ্রহ তাড়ার হাতছানি স্বাগতিকদের সামনে। ভারতের বিপক্ষে পঞ্চম টেস্টের শেষ দিনে আর ১১৮ রান দরকার ইংল‍্যান্ডের। আর সিরিজ জিততে ভারতের প্রয়োজন ৭ উইকেট।

বার্মিংহ‍্যামে সোমবার চতুর্থ দিনের খেলা শেষে ৩৭৮ রানের লক্ষ‍্য তাড়ায় ৩ উইকেটে ২৬০ রান করেছে ইংল‍্যান্ড। ১১০ বলে ৯ চারে ৭৬ রানে ব‍্যাট করছেন জো রুট। প্রথম ইনিংসের সেঞ্চুরিয়ান জনি বেয়ারস্টো ৮৯ বলে এক ছক্কা ও আট চারে খেলছেন ৭২ রানে। তৃতীয় ও শেষ সেশনে ৩৪ ওভারে ১৫২ রান তুলে জয়ের পথে অনেকটাই এগিয়ে গেছে ইংল‍্যান্ড। এর ১৫১ রানই এসেছে রুট ও বেয়ারস্টোর দারুণ জুটিতে। ২ রানের মধ‍্যে ৩ উইকেট হারিয়ে চাপে পড়া দলকে কক্ষপথে ফিরিয়েছেন এই দুই মিডল অর্ডার ব‍্যাটসম‍্যান।

জিততে হলে এজবাস্টনের ১২০ বছরের ইতিহাসে সর্বোচ্চ রান তাড়ার রেকর্ড গড়তে হবে ইংল‍্যান্ডকে। এই চ‍্যালেঞ্জের মুখে দাঁড়িয়ে স্বাগতিকদের দারুণ সূচনা এনে দেন অ‍্যালেক্স লিস ও জ‍্যাক ক্রলি। ওয়ানডে ঘরানার ব‍্যাটিংয়ে এই দুই ওপেনার রান তোলেন দ্রুত। তাদের থামাতে ঘুরিয়ে ফিরিয়ে সব বোলারই ব‍্যবহার করেন জাসপ্রিত বুমরাহ। শেষ পর্যন্ত ১০৭ রানের জুটি ভাঙেন ভারত অধিনায়কই।

অফ স্টাম্পের বাইরের বল ছেড়ে দেন ক্রলি। কিন্তু বল একটু ভেতরে ঢুকে এলোমেলো করে দেয় স্টাম্প! ৭ চারে ক্রলি করেন ৪৬ রান। পরের ওভারে ফিরে অলি পোপকে কট বিহাইন্ড করেন বুমরাহ। ৮ চারে ৬৫ বলে ৫৬ রান করে রান আউট হয়ে যান লিস। হুট করে চাপে পড়ে যাওয়া ইংল‍্যান্ডের অবস্থা হতে পারতো আরও খারাপ। কিন্তু মোহাম্মদ সিরাজের বলে স্লিপে বেয়ারস্টোর ক‍্যাচ নিতে পারেননি হনুমা বিহারি। সে সময়ে ১৪ রানে ছিলেন ছন্দে থাকা ইংলিশ ব‍্যাটসম‍্যান।

শুরু থেকে স্বচ্ছন্দ রুট। তবে একটু সময় নিয়েছেন বেয়ারস্টো। ৭১ বলে ফিফটি ছুঁয়ে একই গতিতে এগিয়ে যাচ্ছেন রুট। ৭৫ বলে পঞ্চাশ ছুঁয়ে রানের গতি বাড়ানোর দিকে মন দিয়েছেন বেয়ারস্টো। শেষ সেশনে উইকেট থেকে তেমন একটা সহায়তা পাননি বোলাররা। ব‍্যাটিং হয়ে গিয়েছিল সহজ। সেটা কাজে লাগিয়ে দলকে দৃঢ় ভিতের উপর দাঁড় করান রুট ও বেয়ারস্টো।

এর আগে ৩ উইকেটে ১২৫ রান নিয়ে দিন শুরু করা ভারত চেতেশ্বর পুজারাকে হারায় দ্রুত। আগের দিন ৫০ রানে অপরাজিত থাকা এই ব্যাটসম্যান ৬৬ রানে ফেরেন স্টুয়ার্ট ব্রডের বলে ব্যাকওয়ার্ড পয়েন্টে ক্যাচ দিয়ে।

ফিফটির আগে রিশাভ পান্তকে ফেরানোর সুযোগ পেয়েছিল ইংল্যান্ড। কিন্তু ব্রডের বলে স্লিপে ক্যাচ ছাড়েন ক্রলি। ৪৫ রানে জীবন পেয়ে ৭৬ বলে পঞ্চাশ স্পর্শ করেন ভারতের কিপার-ব্যাটসম্যান। শ্রেয়াস আইয়ারকে টিকতে দেননি ম্যাথু পটস। দুই ওভার পর লিচকে রিভার্স সুইপ করে স্লিপে ধরা পড়েন পান্ত। প্রথম ইনিংসে সেঞ্চুরি করা বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান এবার করেন ৮ চারে ৫৭।

এক ওভারে জোড়া উইকেট পেতে পারতেন পটস। শার্দুল ঠাকুরকে ফেরানো এই পেসারের বলে কাভারে জেমস অ্যান্ডারসনের হাতে ক্যাচ দিয়ে বেঁচে যান তখন ১০ রানে থাকা জাদেজা। লাঞ্চের পর মোহাম্মদ শামি, জাদেজা ও বুমরাহকে ফিরিয়ে ভারতের ইনিংসে গুটিয়ে দেন বেন স্টোকস।

গত বছর স্থগিত হওয়া সিরিজের পঞ্চম টেস্ট ম্যাচটিই নতুন সূচিতে হচ্ছে এজবাস্টনে। ২-১ ব্যবধানে এগিয়ে থাকা ভারত এখানে ড্র করলেই জিতে যাবে সিরিজ। তবে সিরিজের ফল ড্র হওয়ার তেমন কোনো বাস্তবিক সম্ভাবনা দেখা যাচ্ছে না। ম্যাচ আপাতত ইংলিশদের হাতে। পঞ্চম ও শেষ দিন সকালে দ্রুত কয়েকটি উইকেট নিতে পারলে সুযোগ থাকবে ভারতেরও।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




bangladesherkhela.com 2019
Developed by RKR BD