রেকর্ড গড়ে ফাইনালে চেলসি

রেকর্ড গড়ে ফাইনালে চেলসি

উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ

বিবর্ণ রিয়াল মাদ্রিদকে ২-০ গোলে হারিয়ে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে উঠেছে চেলসি। বুধবার রাতে দ্বিতীয় লেগের ম্যাচে রিয়াল মাদ্রিদকে ২-০ হারায় তারা। এতে ৩-১ গোল গড়ে তৃতীয়বারের মতো চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনাল নিশ্চিত করলো ‘অল ব্ল’রা। এই জয়ে আগামী ২৯ মে ইস্তাম্বুলে অল ইংলিশ ফাইনালে চেলসির প্রতিপক্ষ ম্যাঞ্চেস্টার সিটি। 


 
স্ট্যামফোর্ড ব্রিজে ইতিহাস গড়লো চেলসি আর তাদের ম্যানেজার টমাস টুখেল। প্রথম ম্যানেজার হিসেবে দু’টি ভিন্ন ক্লাবের হয়ে টানা দ্বিতীয়বার দলকে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে তুললেন এই জার্মান ম্যানেজার। একই সঙ্গে টুর্নামেন্টের মাঝপথে কোচ পরিবর্তন করে তৃতীয়বার চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে উঠল চেলসি। 

সেমিফাইনালের প্রথম লেগের ম্যাচটি ১-১ গোলে ড্র হওয়ায় রিয়াল মাদ্রিদকে ফাইনালের টিকিট পেতে কমপক্ষে ২-২ গোলে ড্র করতে হতো। আর গোল শূন্য ড্র হলেই ফাইনাল নিশ্চিত ছিলো ‘অল ব্ল’দের। এমন সমীরণের ম্যাচে চেলসির মাঠ স্ট্যামফোর্ড ব্রিজে ছন্নছাড়া ফুটবল খেলে জিনেদিন জিদানের দল। রক্ষণভাগ, মাঝমাঠ কিংবা আক্রমণভাগ কোনো জায়গাতেই প্রত্যাশিত নৈপূন্য দেখাতে পারেনি রেকর্ড ১৩ বারের চ্যাম্পিয়ন রিয়াল। এই সুযোগে খেলার ২৬ মিনিটে এগিয়ে যায় টিমো ভারর্নার। 

পিছিয়ে থেকে যেনো ঘুম ভাঙে রিয়ালের। ৩৫ মিনিটে করিম বেনজেমার প্রচেষ্টা নস্যাৎ করে চেলসিকে বাঁচান সেনেগালিজ গোলকিপার মঁদি। 

বিরতি থেকে ফিরে আবারও প্রতিপক্ষের উপর চাপ সৃষ্টি করে চেলসি। কিন্তু হাভার্টজের প্রচেষ্টা ক্রসবারে লেগে প্রতিহত হলে এগিয়ে যাওয়া হয়নি ইংলিশদের। 

অবশেষে খেলার ৮৫ মিনিটে ম্যাসন মাউন্টের গোলে ব্যবধান দ্বিগুণ করে চেলসি। 

শেষবাশি বাজার সঙ্গে সঙ্গে বিজযানন্দে মেতে ওঠে চেলসি শিবির। ২০১১-১২ মৌসুমে বায়ার্ন মিউনিখকে হারিয়ে ইউরোপ সেরা হওয়ার পর এই প্রথম তারা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে উঠলো। 

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




bangladesherkhela.com 2019
Developed by RKR BD