দাপুটে জয়ে সিরিজ জিতল বাংলাদেশ

দাপুটে জয়ে সিরিজ জিতল বাংলাদেশ

দাপুটে এক জয়ে শ্রীলংকার বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ জিতল বাংলাদেশ। তাও আবার এক ম্যাচ হাতে রেখে। মিরপুরে সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে শ্রীলঙ্কাকে ডাকওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে ১০৩ রানের বিশাল ব্যবধানে হারায় তামিম ইকবালের দল।

টেস্ট খেলুড়ে দলগুলোর মধ্যে ছয়টি দলের বিপক্ষে সিরিজ জেতার কীর্তি ছিল বাংলাদেশের। আক্ষেপ ছিল কখনও শ্রীলঙ্কাকে না হারানোর। মঙ্গলবারের (২৫ মে) জয়ে দীর্ঘদিনের সেই আক্ষেপ ঘুচেছে টাইগারদের। এর আগে জিম্বাবুয়ে, ওয়েস্ট ইন্ডিজ, নিউজিল্যান্ড, পাকিস্তান, ভারত ও দক্ষিণ আফ্রিকাকে সিরিজ হারের স্বাদ দিয়েছে বাংলাদেশ দল।

‘হোম অব ক্রিকেট’ মিরপুরের শেরেবাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে প্রথম ম্যাচের মত দ্বিতীয় ম্যাচেও টস জিতে ব্যাট করতে নামে স্বাগতিক দল। মুশফিকুর রহিমের দুর্দান্ত সেঞ্চুরিতে ৪৮.১ ওভারে অলআউট হওয়ার আগে ২৪৬ রান সংগ্রহ করে লাল-সবুজের দল।

ক্যারিয়ারের অষ্টম শতক হাঁকানোর দিনে ব্যাট হাতে ম্যাচ সেরা মুশফিক একাই লড়েছেন। ১০টি চারের সহায়তায় ১২৭ বলে ১২৫ রান করে লঙ্কানদের শেষ শিকারে পরিণত হয়ে সাজঘরে ফেরেন তিনি। এছাড়া আগের ম্যাচের আরেক হাফ-সেঞ্চুরিয়ান মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ৪১ রান করেন ৫৮ বলের মোকাবেলায়। চাপের মুখে তার ইনিংস বড় ভূমিকা রাখে দলীয় সংগ্রহে।

শ্রীলঙ্কার পক্ষে এদিন তিনটি করে উইকেট শিকার করেন দুশমন্থ চামিরা ও লক্ষণ সান্দাকান। দুটি উইকেট শিকার করেন ইসুরু উদানা।

জয়ের লক্ষ্যে খেলতে নেমে দলীয় ২৪ রানে সফরকারী অধিনায়ক কুশল পেরেরাকে হারায় লঙ্কানরা। অভিষিক্ত শরিফুল ইসলামের বলে দুর্দান্ত ক্যাচ ধরেন দলপতি তামিম ইকবাল। এরপর নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারাতে থাকে শ্রীলঙ্কা। শক্ত হাতে দলের হাল ধরে পারেননি কোনো ব্যাটসম্যান।

১২৬ রানে ৯ উইকেট পতনের পর বৃষ্টি নামলে ডাকওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে লঙ্কানদের নতুন লক্ষ্য নির্ধারণ করে দেওয়া হয়। ৪০ ওভারে লঙ্কানদের করতে হত ২৪৫ রান। শেষপর্যন্ত ৪০ ওভার ব্যাট করে লঙ্কানদের ইনিংস থামে ১৪১ রানে। বাংলাদেশের পক্ষে মুস্তাফিজুর রহমান ও মেহেদী হাসান মিরাজ তিনটি করে উইকেট শিকার করেন। এছাড়া সাকিব আল হাসান দুটি ও শরিফুল ইসলাম একটি উইকেট শিকার করেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




bangladesherkhela.com 2019
Developed by RKR BD