উলভসকে হারিয়ে দ্বিতীয় স্থানে ম্যানইউ

উলভসকে হারিয়ে দ্বিতীয় স্থানে ম্যানইউ

মার্কো রাশফোর্ডের ৯৩ মিনিটের গোলে উলভসকে মঙ্গলবার ১-০ গোলে পরাজিত করে প্রিমিয়ার লিগ টেবিলের দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। এদিকে ক্রমেই করোনার প্রাদুর্ভাব বাড়তে থাকায় প্রিমিয়ার লিগের চলমান রাউন্ডের খেলা আয়োজন নিয়ে বেশ বিপাকে রয়েছে লিগ কর্তৃপক্ষ। কাল প্রিমিয়ার লিগে একদিনে সর্বোচ্চ ১৮ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে। ইতোমধ্যেই ম্যানচেস্টার সিটির এভারটন সফর স্থগিত করা হয়েছে।

লিগের অন্যান্য ম্যাচগুলো ভালভাবে সম্পন্ন হলেও শেফিল্ড ইউনাইটেড ও সাউদাম্পটনের ম্যাচ নিয়ে শঙ্কা দেখা দিয়েছিল। টেবিলের তলানিতে থাকা শেফিল্ড ইউনাইটেড দলে বেশ কয়েকটি পজিটিভ কেস পাওয়া গেলে তারা ১৮জনের মূল দল ঘোষণা করতে পারায় শেষ পর্যন্ত ম্যাচটি মাঠে গড়ায়। শেষ পর্যন্ত অবশ্য তাদেরকে বার্নলির কাছে ১-০ গোলের পরাজয় বরণ করতে হয়েছে।

এদিকে সাউদাম্পটনেরও বেশ কয়েকজন করোনায় আক্রান্ত হওয়ায় তাদেরকে নিজ বাড়িতে সেল্ফ আইসোলেশনে পাঠানো হয়েছে। কোচ রাল্ফ হ্যাাসেনহাটলও আইসোলেশনে থাকায় গোলশুন্য ড্রয়ের ম্যাচটিতে ডাগআউটে ছিলেন না।

টেলিগ্রাফ পত্রিকার সূত্রমতে জানা গেছে ইংল্যান্ড জুড়ে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় প্রিমিয়ার লিগ হয়তোবা দুই সপ্তাহের জন্য বন্ধ হয়ে যেতে পারে।

এদিকে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড বস ওলে গানার সুলশার অবশ্য লিগ চালিয়ে যাবার পক্ষে মত দিয়েছেন। এ সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘আমি মনে করিনা এই মুহূর্তে ফুটবল বন্ধ হলে তা খুব একটা পরিবর্তন আনতে পারবে। আমাদের জন্য যে ধরনের জৈব সুরক্ষা বলয় তৈরী করা হয়েছে সেটাই যথেষ্ট। এ কারণে আমাদের মধ্যে আক্রান্তের সংখ্যাও তুলনামূলক কম হচ্ছে।’

ওল্ড ট্রাফোর্ডে মাঠের লড়াইয়ে তারুণ্যনির্ভর উল্ফসের বিপক্ষে অনেকটা সৌভাগ্যের জোড়েই তিন পয়েন্ট আদায় করে নিয়েছে ইউনাইটেড। মাত্র ৪৮ ঘন্টা আগেই উল্ফসের এই দলটি টটেনহ্যামের সাথে ১-১ গোলে ড্র করেছিল। সাম্প্রতিক সময়ে বেশ কয়েকবারই ইউনাইটেড ও উল্ফস একে অপরের মোকাবেলা করেছে। ম্যাচগুলোতে অবশ্য ইউনাইটেডেরই আধিপত্য ছিল। তারই ধারাবাহিকতায় কালও ইউনাইটেড বেশ আত্মবিশ^াসের সাথে মাঠে নেমেছিল। কিন্তু হঠাৎ করেই ছন্দ পতনে ইউনাইটেডকে ম্যাচের শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হয়েছে। আর এই ধরনের জয় আরো একবার ইউনাইটেডর সবচেয়ে সফল কোচ এ্যালেক্স ফার্গুসনের সময়টাকে সামনে নিয়ে এসেছিল। ফার্গুসনের অধীনে প্রায় সময়ই ইউনাইটেড শেষ মুহূর্তের গোলে দলের জয় নিশ্চিত করতো। কালও তার ব্যতিক্রম ছিলনা। স্টপেজ টাইমে রাশফোর্ডের শট রোমেইন সেইসের ডিফ্লেকটেড হয়ে জালে জড়ালে রেড ডেভিলসদের জয় নিশ্চিত হয়।

দিনের আরেক ম্যাচে জয়ের ধারা অব্যাহত রেখে ব্রাইটনকে ১-০ গোলে পরাজিত করেছে আর্সেনাল। শনিবার আলেক্সান্দার লাকাজেত্তের চেলসির বিপক্ষে ৩-১ গোলে জয়ী উজ্জীবিত আর্সেনাল যেন তাদের পুরনো ছন্দে ফিরেছে। ম্যাচের ৬৬ মিনিটে আলেক্সান্দার লাকাজেত্তের গোলে ব্রাইটনের মাঠে গানার্সদের জয় নিশ্চিত হয়। ইনজুরি কাটিয়ে কাল দলে ফিরেছিলেন দলীয় অধিনায়ক পিয়েরে-এমেরিক অবামেয়াং। বদলী হিসেবে মাঠে নেমে ফরাসি স্ট্রাইকার লাকাজেত্তে ২১ সেকেন্ডের মধ্যে বুকায়ো সাকার পাসে গোল নিশ্চিত করেন লাকাজেত্তে। এই জয়ে টেবিলের ১৩তম স্থানে উঠে এসেছে আর্সেনাল। ম্যাচ শেষে কোচ মিকেল আর্তেতা বলেছেন, ‘জয়ই হলো সবচেয়ে সেরা ঔষুধ। ম্যাচে জয়ী হলে পুরো চিত্রই পাল্টে যায়। তখন সবকিছুই স্পষ্ট মনে হয়।’

রোববার লিভারপুলকে ১-১ গোলে আটকে দেয়া ওয়েষ্ট ব্রুমের সাথে পরবর্তী ম্যাচে মাঠে নামতে যাচ্ছে আর্সেনাল। যদিও তারা কাল লিডসের কাছে ৫-০ গোলে বিধ্বস্ত হয়েছে।

টানা তৃতীয় ম্যাচে গোল করতে না পারার ব্যর্থতায় ওয়েস্ট হ্যামের সাথে গোলশুন্য ড্র করে পয়েন্ট হারিয়েছে সাউদাম্পটন। একইসাথে এই ড্রয়ে চতুর্থ স্থানে উঠে আসার সুযোগও নষ্ট হয়েছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




bangladesherkhela.com 2019
Developed by RKR BD