২০৩২ অলিম্পিক আয়োজন করতে চায় কাতার

২০৩২ অলিম্পিক আয়োজন করতে চায় কাতার

২০৩২ অলিম্পিক গেমস আয়োজনের আগ্রহ প্রকাশ করেছে কাতার। সোমবার তারা এই সংক্রান্ত ঘোষণা দিয়ে বিডে অংশগ্রহনের সিদ্ধান্ত জানিয়েছে। ২০৩২ সালের গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিক আয়োজনে ইতোমধ্যেই বিডে অংশগ্রহনের ঘোষণা দিয়েছে ভারত, অস্ট্রেলিয়ার কুইন্সল্যান্ড, চায়নার সাংহাই। এছাড়াও দক্ষিণ ও উত্তর কোরিয়ার সম্ভাব্য যৌথ বিডের কথাও শোনা যাচ্ছে।

২০১৪ সালের পরিবর্তিত আইনানুযায়ী আগ্রহী দেশগুলোকে আগে তাদের আগ্রহের বিষয়টি লিখিত আকারে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটিকে (আইওসি) জানাতে হবে। যেখানে আগ্রহের মূল কারণ উল্লেখ করতে হবে। বার্তা সংস্থা এএফপিকে কাতার নিশ্চিত করেছে লুসানেতে আইওসির কাছে তারা পত্রের মাধ্যমে বিডে আগ্রহের বিষয়টি। এ সম্পর্কে কাতার অলিম্পিক কমিটির সভাপতি শেখ জোয়ান বিন হামাদ বিন খলিফা আল-থানি এক বিবৃতিতে বলেন, ‘আজকের এই ঘোষণার অর্থ হচ্ছে আমরা আমাদের আগ্রহের বিষয়টি আইওসির ফিউচার হোস্ট কমিশনের কাছে জানিয়ে দিয়েছি। এখানে আমরা উল্লেখ করেছি কাতারের দীর্ঘ মেয়াদের উন্নয়নের লক্ষ্যকে কিভাবে অলিম্পিক গেমস সহযোগিতা করতে পারে।’

এর আগে কাতার ২০১৬ ও ২০২০ গেমসের বিডে অংশগ্রহণ করেছিল। ২০১৬ সালে তারা গেমস অক্টোবরে আয়োজনের প্রস্তাব করেছিল। আজারবাইজানের বাকুর সাথে ২০২০ সালের যৌথ বিডে গেমস ২০ সেপ্টেম্বর থেকে ২০ অক্টোবরের মধ্যে আয়োজনের প্রস্তাব করা হয়েছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সংক্ষিপ্ত তালিকায় আসতে পারেনি কাতারের বিডটি। ২০২০ টোকিও অলিম্পিক করোনাভাইরাসের কারণে পিছিয়ে আগামী বছর অনুষ্ঠানের সিদ্ধান্ত হয়েছে। জাপানকেও জুন-জুলাইয়ের প্রচন্ড গরমের বিষয়টি নিয়ে বিড জিততে বেশ বেগ পেতে হয়েছে। কাতারেরও এ পর্যন্ত করা সবকটি বিডে এই একটি সমস্যা নিয়ে বেশ ভুগতে হয়েছে।

কাতার অলিম্পিক প্রধান বলেন, ‘বিশ্বমানের বড় ক্রীড়া আসর আয়োজনের বিশ্বাস ইতোমধ্যেই কাতার অর্জণ করেছে। কাতার ক্রীড়ার মাধ্যমে বিভিন্ন দেশের মধ্যে সাংষ্কৃতিক বন্ধুত্ব আদান-প্রদানের লক্ষ্য নিয়ে কাজ করে যাচ্ছে। কমিশনের সাথে এই মূল বিষয়টি নিয়ে আমাদের আলোচনা হয়েছে।

গ্রীষ্মে কাতারের আবহাওয়া ৫০ ডিগ্রী সেলসিয়াস পর্যন্ত হয়। গত বছর দোহায় অনুষ্ঠিত ওয়ার্ল্ড এ্যাথলেটিক্স চ্যাম্পিয়নশীপে রোড রেসগুলোতে গরম ও আদ্রতা একটি বড় সমস্যা হয়ে দেখা দিয়েছিল। এর ফলে প্রথম কয়েকদিন দর্শক সংখ্যা কম থাকায় সমালোচনার মুখে পড়তে হয়েছিল আয়োজক কমিটিকে।

২০২২ সালে বিশ্বকাপ ফুটবল আয়োজিত হতে যাচ্ছে কাতারে। এই বিডে জয়লাভ করা নিয়ে যদিও সারা বিশ্বজুড়ে বিশেষ করে ইউরোপিয়ান গণমাধ্যমের তোপের মুখে পড়তে হয়েছিল কাতারকে। ২০১০ সালে এই বিডে জয়ী হবার পর থেকে বিভিন্ন অবকাঠামো নির্মাণে শ্রমিকদের নাগরিক অধিকার সংক্রান্ত বিভিন্ন ধরনের সমালোচনা সত্তেও শেষ পর্যন্ত বিশ্বকাপ আয়োজনের প্রস্তুতি সফলভাবে সম্পন্ন করার দ্বারপ্রান্তে রয়েছে তেল সমৃদ্ধ মধ্যপ্রাচ্যের অন্যতম ধনী দেশটি।

" class="prev-article">Previous article

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




bangladesherkhela.com 2019
Developed by RKR BD