সাফ শিরোপা জিততে চান জামাল ভূঁইয়া

সাফ শিরোপা জিততে চান জামাল ভূঁইয়া

বাংলাদেশকে সাফ-এর শিরোপা জয়ের স্বাদ এনে দিতে চান জাতীয় দলের অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়া। আজ বিকেলে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে) আয়োজিত ফেসবুক লাইভ আড্ডায় এ কথা বলেন তিনি। এছাড়াও ফিফা র‌্যাংকিং-এ বাংলাদেশের উন্নতি ঘটাতে চান। সুদূর ডেনমার্ক থেকে বাফুফের লাইভ আড্ডায় যোগ দেন জামাল ভূঁইয়া।

বাংলাদেশের ফুটবল নিয়ে তার স্বপ্নের কথা জানান জামাল। তিনি বলেন, ‘এখন আমি বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক। বাংলাদেশের হয়ে খেলতে আমি গর্ববোধ করি। আমার লক্ষ্য, আগামীতে আরো ভালো খেলুক বাংলাদেশ দল। বাংলাদেশকে সাফ শিরোপার স্বাদ দেয়া ও ফিফা র‌্যাংকিংয়েও আরও উন্নতি করুক, এটা আমার চাওয়া। সামনে বিশ্বকাপ বাছাইয়ের ম্যাচ রয়েছে। সেখান থেকে আমরা পয়েন্ট পাওয়ার চেষ্টা করবো। ভালো খেলার চেষ্টা করবো।’

ডেনমার্ক প্রবাসী জামাল সেখান থেকেই ফুটবলে পথ চলা শুরু করেন। শিকড়ের টানে বাংলাদেশের হয়ে খেলার স্বপ্ন ছিলো তার। তাই স্বপ্ন পূরণের জন্য ২০১১ সালে জাতীয় দলের ট্রায়ালে অংশ নেন কিশোরগঞ্জের এই খেলোয়াড়। কিন্তু দেশের কন্ডিশন ও মাঠের সাথে মানিয়ে নিতে পারেননি জামাল। তাই ডেনমার্কে ফিরে যান তিনি। কিন্তু হাল ছাড়েননি তিনি। ইচ্ছাকে জয় করে ২০১৩ সালে বাংলাদেশ দলে সুযোগ হয় তার। নেপালে অনুষ্ঠিত সাফ চ্যাম্পিয়শীপে স্বাগতিকদের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে অভিষেক হয় তার।

নিজের স্বপ্ন পূরণ নিয়ে জামাল বলেন, ‘যখন আমি ডেনমার্কের ক্লাব কোপেনহেগেন এফসির যুব ফুটবলে খেলি, তখন থেকেই স্বপ্ন ছিল বাংলাদেশ জাতীয় দলে খেলবো। কিন্তু কখনও অধিনায়ক হতে পারবো তা ভাবিনি। প্রথম ম্যাচের স্মৃতি এখনও জ্বলজ্বল করছে। মাঠে যখন জাতীয় সংগীত বাজছিল, তা শুনে আমি শিহরিত হয়েছিলাম। সেই মুহূর্তটা কখনোই ভুলবো না। আমার কাছে সবচেয়ে সুখকর মুহূর্ত সেটা।

লাইভ চলাকালীন, এক দর্শকের প্রশ্ন ছিল, বাংলাদেশ কি বিশ্বকাপ খেলতে পারবে? জামাল বলেন, ‘বিশ্বকাপ খেলা কঠিন কাজ। ভারত এত বড় দেশ, এত স্পন্সর-এত সুযোগ সুবিধা থাকার পরও তারা বিশ্বকাপ খেলতে পারছে না। কারণ, এটি অনেক কঠিন। তবে আমাদের বিশ্বাস রাখতে হবে, একদিন আমরা বিশ্বকাপ খেলতে পারবো। এ জন্য আমাদের পরিকল্পনা নিয়ে সামনে এগোতে হবে। আরো ভালো-ভালো ফুটবলার তৈরি করতে হবে।’

এক ঘন্টার এই আড্ডায় মজার একটি ঘটনাও তুলে ধরেন জামাল। গত বছরের অক্টোবরে বিশ্বকাপের বাছাইপর্বের ম্যাচ খেলতে ভারতে গিয়েছিল বাংলাদেশ। ম্যাচের ঠিক আগ মুহূর্তে জামালের সাথে পরিচিত হতে এসেছিলেন বলিউডের তারকা আলিয়া ভাট।

আজকের আড্ডায় সেই স্মৃতি তুলে ধরে জামাল বলেন, ‘ম্যাচের আগে হোটেলের নিচে একজন মেয়ে আমার সাথে দেখা করতে এসেছিল। আমি জানতাম না কে ছিলেন তিনি। তবে সে বলেছে তার নাম আলিয়া ভাট। তিনি দেখতে অনেক সুন্দর ছিলেন। আমি তার দিকে তাকাচ্ছিলাম, আর ভাবছিলাম। বলিউডের সিনেমা দেখা হয় না বলেই তাকে চিনতে পারিনি। পরে জানলাম, সে বড় বলিউড তারকা। তার সাথে আমি ছবি তুলতে না পারায় আমি অনুতপ্ত হই।’

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




bangladesherkhela.com 2019
Developed by RKR BD