নিলামে ম্যারাডোনার জার্সি

নিলামে ম্যারাডোনার জার্সি

দিয়েগো ম্যারাডোনার জার্সি নিলাম করে উঠল ৫৫ হাজার ইউরো‌। এই অর্থ ব্যয় হবে ইটিলির নাপোলিতে করোনাভাইরাসের কারণে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের জন্য। আর্জেন্টিনার কিংবদন্তির এই জার্সি নিলাম করেছেন ইতালির প্রাক্তন ফুটবলার সিরো ফেরেরা। ৩৩ বছর ধরে জার্সিটি তাঁর কাছেই ছিল।

ম্যারাডোনার আর্জেন্টিনার বিরুদ্ধেই ইতালির হয়ে অভিষেক হয়েছিল সিরোর। ১৯৮৭ সালের জুন মাসে একটি আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচে। তখন থেকেই দু’‌জনের বন্ধুত্ব। ওই ম্যাচের পরই সিরোর হৃদয় জিতে নিয়েছিলেন ম্যারাডোনা। কারণ নিজের জার্সি খুলে দিয়েছিলেন ইটালিয়কে। দু’‌জনের বন্ধুত্ব আরও দৃঢ় হয় নাপোলিতে একসঙ্গে খেলার সময়। ১৯৮৭ এবং ১৯৯০, এই দু’‌বছর সিরি ‘‌এ’‌ খেতাব জিতেছিল নাপোলি। যে সাফল্যের পেছনে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখেছিলেন ম্যারাডোনা এবং ডিফেন্ডার সিরো।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণে এইমুহূর্তে ইটালি দিশেহারা। প্রচুর মানুষের মৃত্যু হয়েছে। প্রতিদিনই লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। তার ওপর গোটা দেশ জুড়ে এখন লকডাউন। বিপদে রয়েছেন মানুষ। পাশে দাঁড়াতেই দীর্ঘদিন ধরে সযত্নে রাখা ম্যারাডোনার জার্সি নিলাম করার সিদ্ধান্ত নেন সিরো। প্রাক্তন সতীর্থের এই উদ্যোগে দারুণ খুশি ম্যারাডোনা। ফেসবুকে লিখেছেন, ‘‌আমরা আরও একটা ম্যাচ জিতলাম সিরো ফেরেরা। এই জয়টাই সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ। এই ম্যাচটাও আমরা জিতলাম কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে, যেমন এর আগেও জিতেছি। এই অসহনীয় পরিস্থিতিতে মানুষের পাশে এভাবেও থাকতে পারলাম ভেবে সম্মানিত বোধ করছি।’‌

সিরো জানিয়েছেন, ম্যারাডোনা ছাড়াও আরও কয়েকজন প্লেয়ারের বিভিন্ন স্মারক নিলামে উঠেছিল। সবমিলিয়ে সংগৃহীত অর্থের পরিমাণ ৮৫ হাজার ইউরো‌। এদিকে ঘরবন্দি ম্যারাডোনা বেশ হাঁপিয়ে উঠেছেন। অপেক্ষায় মাঠে ফেরার। ম্যারাডোনার কথায়, ‘‌মাঠে বেশিদিন যেতে না পারলে মন ছটফট করে। কিন্তু উপায়ও নেই। সারা বিশ্বের পরিস্থিতিই খারাপ।’‌

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




bangladesherkhela.com 2019
Developed by RKR BD