ধর্ষকের শাস্তি চেয়ে একাট্ট ক্রীড়াবিদরা

ধর্ষকের শাস্তি চেয়ে একাট্ট ক্রীড়াবিদরা

নির্যাতিত ভারোত্তোলককে নিপীড়িনকারী দোষী ব্যক্তিকে খুঁজে বের করে আইনের আওতায় এনে শাস্তি দাবী করেছেন সাবেক ও বর্তমান ক্রীড়াবিদরা। আজ বুধবার সকালে প্রেসক্লাবের সামনে এক মানববন্ধন করে দোষী ব্যক্তিদের দ্রুত শাস্তির আওতায় আনার দাবী জানান সাবেক ও বর্তমান ক্রীড়াবিদরা।

জাতীয় ক্রীড়া পুস্কার পাওয়া সাবেক ব্যাডমিন্টন খেলোয়াড় কামরুন নাহার ডানার আয়োজনে মানববন্ধনে উপস্থিত হয়েছিলেন সাবেক ও বর্তমান বেশ ক’জন ক্রীড়াবিদ। ডানা বলেন, ‘বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ক্রীড়া বান্ধব। অথচ উনার সেই প্রিয় ক্রীড়াঙ্গণে আজ নারীরা নির্যাতিত। যারা এই ভারোলকের নির্যাতনের সঙ্গে জড়িত, তাদের সবাইকে আইনের আওতায় আনা উচিত। সেই সঙ্গে দৃষ্টান্তুমূলক শাস্তি দিতে হবে।’

জাতীয় পুরস্কার পাওয়া সাবেক ক্রিকেটার রকিবুল হাসান বলেন, ‘নারীরা আজও নিপীড়িত। ক্রীড়াঙ্গন ছিল সবচাইতে নিরাপদ জায়গা। অথচ আজ সেখানেই তারা নির্যাতিত। এটা মেনে নেয়া যায় না। আমি চাই, যারা এর সঙ্গে জড়িত তারা যেন কঠোর শাস্তি পায়। যাতে ভবিষ্যতে আর কেউ এমনটা ঘটানোর সাহস না পায়।’ জাতীয় ক্রীড়া পুরস্কার সাবেক তারকা শাটলার চৌধুরী আবুল হাশেম বলেন, ‘আজ আমরা একট্টা হয়েছি অন্যায়ের প্রতিবাদ করতে। একজন নারী ভারোত্তোলককে নির্যাতনকারীর শাস্তির দাবীতে। আমাদের এই দাবী মানতে হবে।’

এ সময় জাতীয় পুরস্কার পাওয়া সাবেক ক্রিকেটার ও সাংবাদিক জালাল আহমেদ চৌধুরী, জাতীয় পুরস্কার পাওয়া সাবেক তারকা বক্সার আবদুল হালিম, জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত সাবেক তারকা ফুটবলার হাসানুজ্জামান খান বাবলু, জাতীয় পুরস্কার পাওয়া সাবেক তারকা ফুটবলার আবদুল গাফফার, ক্রীড়া সংগঠক লোকমান হোসেন ভূঁইয়া, জাতীয় পুরস্কার পাওয়া ক্রীড়া সংগঠক নুরুল আলম চৌধুরী, ক্রীড়া সংগঠক ফজলুর রহমান বাবুল, রোলার স্কেটিং ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আহমেদ আসিফুল হাসান, সিনিয়র ক্রীড়া সাংবাদিক মোজাম্মেল হক চঞ্চল বক্তব্য রাখেন। এছাড়া মানববন্ধনে আরও উপস্থিত ছিলেন জাতীয় পুরস্কার পাওয়া ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক গাজী আশরাফ হোসেন লিপু, ক্রীড়া সংগঠক শফিউর রহমান মন্টু, জাতীয় টিটি দলের খেলোয়াড় সালেহা সেতু, ভলিবলের সাবকে খেলোয়াড় জেসমিন পপি, ফারাহ চৌধুরী, হ্যান্ডবলের কামরুল ইসলাম কিরন ও নুসরাত জাহান দিনা, সাবেক নারী ফুটবলার রেহেনা পারভীন, জাতীয় কুস্তিগীর শিরিন সুলতানা ও বাংলাদেশ মহিলা পরিষদের প্রতিনিধি অ্যাডভোকেট দিপ্তী।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




bangladesherkhela.com 2019
Developed by RKR BD