রোমাঞ্চকর জয়ে কোয়ার্টারে বেলজিয়াম

রোমাঞ্চকর জয়ে কোয়ার্টারে বেলজিয়াম

ফারদিন আল সাজু

অবিস্মরণীয় এক ম্যাচে রোমাঞ্চকর জয়ে বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে 'সোনালী প্রজন্মের দল' বেলজিয়াম। তাতে দুই গোলে এগিয়ে থেকে‌ও বিদায় জাপানের। নকআউট পর্বে দুই গোলে পিছিয়ে থেকে‌ও ১৯৭০ সালের পর কোনো দল হিসেবে জিতলো বেলজিয়াম। তাদের ৩-২ গোলের জয়ে প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপের শেষ আটে খেলার স্বপ্নটা অধরাই রইলো এশিয়ার প্রতিনিধি জাপানের।

ইনজুরি টাইমে নাসির শাদলির গোলে বেলজিয়ামের অবিশ্বরণীয় জয়। ২-০ তে পিছিয়ে পড়ার ২২ মিনিটের মধ্যে সমতায় ফেরা আর ইনজুরি টাইমের গোলে নাটকীয় জয়ে টানা দ্বিতীয়বার কোয়ার্টার ফাইনালে ১৯৮৬ সালের সেমিফাইনালিস্টরা। অন্যদিকে, কোয়ার্টার ফাইনালের আশা জাগিয়েও, শেষ পর্যন্ত হতাশ করেছে বিশ্ব র‌্যাংকিংয়ে ৬০ নম্বরে থাকা জাপান। তবে র‌্যাংকিংয়ের তিন নম্বর দলকে ঘাম ঝড়িয়ে ছেড়েছে তারা। এমনকি ব্লু-সামুরাইদের দাপটে ছিটকে পড়া ফেভারিটদের তালিকায় বেলজিয়ামকে দেখছিলো অনেকেই।

যার শুরুটা খেলার ৪৮ মিনিটে। হারাগুচির গোলে লিড নেয় জাপান। এর পাঁচ মিনিট পরেই বিশ্বকে আরো একবার অবাক করে দিয়ে দুর্দান্ত শটে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন তাকাশি ইনুই। বিশ্বকাপে প্রথমবারের মতো কোয়ার্টার ফাইনালের স্বপ্ন দেখতে শুরু করে জাপান।

পিছিয়ে পড়েও আশা ছাড়েননি লুকাকু-হ্যাজার্ডরা। ৬৯ মিনিটে ভাগ্য সহায়তায় ভার্তোনের গোলে ব্যবধান কমায় বেলজিয়াম। আর ৭৪ মিনিটে গোল করে রেড ডেভিলদের সমতায় ফেরার স্বস্তি এনে দেন মারুয়ানে ফেলাইনি।

নির্ধারিত সময় শেষে, ইনজুরি টাইমও শেষের পথে, অতিরিক্ত সময়ে খেলার গড়ানো হিসেব কষছিলো ফুটবল ভক্তরা। তবে নাটকীয়তার অনেকটাই বাকী ছিলো তখনও। শেষ মুহূর্তে প্লাটা আক্রমনে বেলজিয়ামকে জয়সূচক গোল এনে দেন শাদলি। পিছিয়ে পড়েও শিহরণ জাগানো এই জয় ব্রাজিলের বিপক্ষে ম্যাচের নিশ্চই আত্মবিশ্বাস যোগাবে সোনলী প্রজন্মের বেলজিয়ামকে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




bangladesherkhela.com 2019
Developed by RKR BD