৫১৩ রানে অলআউট বাংলাদেশ

৫১৩ রানে অলআউট বাংলাদেশ

বাংলাদেশর করা ৫১৩ রানের জবাবে ব্যাট করতে নেমে দলের ১ রানে করুনারত্নের উইকেট হারিয়ে শুরুতেই বিপদে পড়ে শ্রীলঙ্কা। মেহেদী হাসান মিরাজ তাকে ইমরুল কায়েসের তালুবন্দি করান। শেষ খবর পা‌ওয়া পর্যন্ত লংকানদের সংগ্রহ, ৬ ‌ওভারে ১ উইকেটে ১৪ রান।

আগের দিন উইকেটবিহীন ছিলেন লংকান স্পিনার রঙ্গনা হেরাথ। চট্টগ্রামে, টেস্টের দ্বিতীয় দিনে জ্বলে উঠলেন তিনি। তাতেই জ্বলে-পুড়ে ছারখাড় বাংলাদেশ। তার আগে সানজামুল ইসলামের সঙ্গে মাহমুদ উল্লাহ অষ্টম উইকেট ৫৮ রানের জুটি। পরে মুস্তাফিজকে নিয়ে স্বাগতিকদের স্কোর ৫০০ রানের ‌ওপরে নিয়ে যান অধিনায়ক মাহমুদুল্লা রিয়াদ।

আজ বৃহস্পতিবার টেস্টের দ্বিতীয় দিনের শুরুতেই সেঞ্চুরিয়ান মুমিনুল হকের উইকেট হারায় বাংলাদেশ। অভিজ্ঞ স্পিনার রঙ্গনা হেরাথের বলে মেন্ডিসের তালুবন্দি হন ২১৪ বলে ১৬ চার ১ ছক্কায় ১৭৬ রানের অসাধারণ ইনিংস খেলা মুমিনুল। আবার‌ও ডাবল সেঞ্চুরি না পা‌ওয়ার আক্ষেপ নিয়ে মাঠ ছাড়েন এই মিডলঅর্ডার ব্যাটসম্যান।

মুমিনুলের বিদায়ের পর হেরাথের বলে মিড অনের ওপর দিয়ে অহেতুক তুলে মারতে গিয়ে সান্দাকানের তালুবন্দি হলেন অসুস্থতা কাটিয়ে দলে ফেরা অলরাউন্ডার মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত (৮)। দলীয় স্কোর ৪০০ ছাড়ানোর পরপরই ভালো খেলতে থাকা আরেক অলরাউন্ডার মেহেদী হাসান মিরাজ (২০) তিন রান নিতে গিয়ে রান আউটে কাটা পড়েন। এরপর জুটি গড়ে দলকে এগিয়ে নিতে থাকেন অধিনায়ক মাহমুদ উল্লাহ এবং সানজামুল ইসলাম।

দুজনে মিলে অষ্টম উইকেটে ৫৮ রানের চমৎকার জুটি উপহার দেন। ২৪ রান করা সানজামুল সান্দাকানের শিকার হলে ভাঙে ৫৮ রানের অষ্টম উইকেট জুটি। নাইটওয়াচম্যান খ্যাত তাইজুল ইসলাম এসে ১ রান করেই হেরাথের তৃতীয় শিকার হলে নবম উইকেটের পতন ঘটে বাংলাদেশের। শেষ পর্যন্ত ৫১৩ রানে অলআউট হয় বাংলাদেশ। মাহমুদুল্লাহ অপরাজিত থাকেন ৮৩ রানে।

" class="prev-article">Previous article

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




bangladesherkhela.com 2019
Developed by RKR BD