আন্তর্জাতিক রেটিং দাবায় চ্যাম্পিয়ন জিয়াউর

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায়, প্রাইম ব্যাংক লিমিটেডের পৃষ্ঠপোষকতায় ও লিওনাইন চেস ক্লাবের আয়োজনে ‘প্রাইম ব্যাংক ১৮তম আন্তর্জাতিক রেটিং দাবা প্রতিযোগিতায়’ বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান চ্যাম্পিয়ন হবার গৌরব অর্জন করেছেন। জিয়া ৯ খেলায় পূর্ণ ৯ পয়েন্ট পেয়ে শিরোপা জয় করেন।
শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের ক্যান্ডিডেট মাস্টার সোহেল চৌধুরী ৭.৫ পয়েন্ট নিয়ে রানার-আপ হয়েছেন। সাত পয়েন্ট করে নিয়ে গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের আন্তর্জাতিক মাস্টার আবু সুফিয়ান শাকিল তৃতীয় ও শেখ রাসেল চেস ক্লাবের ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন চতুর্থ স্থান লাভ করেন।
সাড়ে ছয় পয়েন্ট করে নিয়ে পঞ্চম হতে দ্বাদশ স্থান লাভ করেন যথাক্রমে সোনালী ব্যাংক স্পোর্টস ও বিনোদন ক্লাবের মোঃ মতিউর রহমান মামুন, শেখ রাসেল চেস ক্লাবের শওকত হোসেন পল্লব, সাইফ পাওয়ারটেক চেস ক্লাবের মোহাম্মদ সিরাজুল কবীর, হাসান মেমোরিয়াল চেস ক্লাবের মোহাম্মদ এনায়েত হোসেন, শওকত বিন ওসমান শাওন, হাসান মেমোরিয়ালের গোলাম মোস্তফা ভূঁইয়া, নেবুলা চেস ক্লাবের ফয়সাল হোসেন ও সাইফ পাওয়ারটেকের আনিছুজ্জামান জুয়েল।
ছয় পয়েন্ট করে নিয়ে ত্রয়োদশ হতে একবিংশ হন যথাক্রমে উতেন, ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান, মোঃ মাসুম হোসেন, মোঃ মুজিবুর রহমান, কাজী মোঃ মাহবুব আফজাল, ভারতের সক্ষম রাউটেলা, শামসুল কবীর চৌধুরী, মোঃ আব্দুর রউফ ও মোঃ শরীয়তউল্লাহ।
বৃহস্পতিবার দাবা কক্ষে খেলা শেষে পুরস্কার বিতরনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। সাবেক রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ জমির প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করেন। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রাইম ব্যাংক লিমিটেডের ডেপুটি ম্যানেজিং ডিরেক্টর হাবিবুর রহমান, বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ সভাপতি কে এম শহিদউল্যা ও সাধারণ সম্পাদক গাজী সাইফুল তারেক। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন লিওনাইন চেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মঞ্জুর হোসেন জিম্মু এবং আরোও বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের যুগ্ম সম্পাদক শামীম খান।
বৃহস্পতিবার নবম বা শেষ রাউন্ডের খেলা অনুষ্ঠিত হয়। শেষ রাউন্ডে জিয়া ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমানকে, ইমন মাসুমকে, শাওন উতেনকে, এনায়েত আবজিদকে, মোস্তফা জাকারিয়াকে, ফয়সাল হানিফকে, জুয়েল নজরে মাওলাকে এবং সিরাজ সোহানকে পরাজিত করেন। সোহেল শাকিলের সাথে ও মামুন পল্লবের সাথে ড্র করেন। একজন গ্র্যান্ড মাস্টার, একজন আন্তর্জাতিক মাস্টার, তিনজন ফিদে মাস্টার এবং একজন ভারতীয় রেটিংপ্রাপ্ত খেলোয়াড়সহ ১১২জন খেলোয়াড় এ ইভেন্টে অংশগ্রহণ করেন। প্রতিযোগিতার খেলা ৯ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হয় এবং বিজয়ীদের নগদ এক লক্ষ টাকার অর্থ পুরস্কার দেয়া হয়।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




bangladesherkhela.com 2019
Developed by RKR BD