ঢাকাThursday , 11 July 2024
  1. world cup cricket t20
  2. অলিম্পিক এসোসিয়েশন
  3. অ্যাথলেটিক
  4. আইপিএল
  5. আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আরচারি
  8. এশিয়া কাপ
  9. এশিয়ান গেমস
  10. এসএ গেমস
  11. কমন ওয়েলথ গেমস
  12. কাবাডি
  13. কুস্তি
  14. ক্রিকেট
  15. টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ

২৩ বছর পর কোপার ফাইনালে কলম্বিয়া : প্রতিপক্ষ আর্জেন্টিনা

Sahab Uddin
July 11, 2024 9:07 am
Link Copied!

দীর্ঘ ১৩ বছর পর কোপা আমেরিকার ফাইনালে খেলার সুযোগ এসেছিল উরুগুয়ের সামনে। কলম্বিয়ার সামনে ছিল ২৩ বছর পর ফাইনাল খেলার। অবশেষে প্রথমার্ধে করা জেফারসন লার্মার একমাত্র গোলে উরুগুয়েকে কাঁদিয়ে ২৩ বছর পর কোপার ফাইনালে খেলার কৃতিত্ব অজর্ন করলো কলম্বিয়া। যেখানে তাদের জন্য আগে থেকেই অপেক্ষা করছে ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন আর্জেন্টিনা। যারা আগের দিন প্রথম সেমিফাইনালে কানাডাকে ২-০ গোলে পরাজিত করে।
বৃহস্পতিবার (১১ জুলাই) ব্যাংক অব আমেরিকা স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় ভোর ৬টায় শুরু হয় ম্যাচটি। ম্যাচের শুরু থেকেই এদিন শক্তি প্রদর্শনে নামে দু’দল। ৬ হলুদ কার্ড, ১ লাল কার্ড আর ২৪ ফাউলের ম্যাচের ফল নির্ধারণ করলেন জেফারসন লারমা। পুরো আসরে দারুণ ছন্দে থাকা এই মিডফিল্ডারের একমাত্র গোলে ২০২৪ কোপা আমেরিকার ফাইনালে কলম্বিয়া। যেখানে তাদের প্রতিপক্ষ লিওনেল মেসির আর্জেন্টিনা।
বাংলাদেশ সময় আগামী সোমবার (১৫ জুলাই) মায়ামির হার্ড রক স্টেডিয়ামে কোপা আমেরিকার শিরোপা নির্ধারণী ফাইনালে মুখোমুখি হবে আর্জেন্টিনা ও কলম্বিয়া। এর আগে একবারই দু’দলের দেখা হয়েছিল কোপা আমেরিকার ফাইনালে। ১৯৯১ সালের সেই ফাইনালে ২-১ গোলে জয় নিয়ে ফেরে আর্জেন্টিনা।
এদিন কোপার দ্বিতীয় সেমিফাইনালে কোয়ার্টার ফাইনালে ব্রাজিলকে হারানো উরুগুয়ে ১৩ বছর পর ফাইনালের টিকিট নিশ্চিতের লড়াইয়ে মাঠে নেমেছিল কলম্বিয়ার বিপক্ষে। জেমস রদ্রিগেজদের বিপক্ষে ম্যাচটিতে মুহূর্মুহু ছড়িয়েছে উত্তাপ, দুই দলই ফাউল করায় বারবার কার্ড দেখাতে হয় রেফারিকে।
দুই দলের ম্যাচটিতে প্রথমে গোলের দেখা পেতে কলম্বিয়াকে অপেক্ষা করতে হয়েছে ম্যাচের ৩৯তম মিনিট পর্যন্ত। জেমস রদ্রিগেজের নেয়া কর্নার থেকে হেডে গোল করেন জেফারসন লারমা। এটা এবারের আসরে রদ্রিগেজের পঞ্চম অ্যাসিস্ট।
তবে গোল পেলেও কলম্বিয়ার জন্য প্রথমার্ধটা সুখকর হয়নি শেষ মুহূর্তে গিয়ে। ড্যানিয়েল মুনোজ প্রতিপক্ষের এক খেলোয়াড়কে কনুই দিয়ে আঘাত করলে রেফারি তাকে দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখান। ৩১ মিনিটে একবার হলুদ কার্ড দেখেছিলেন তিনি। ফলে লাল কার্ড দেখে মাঠ ছাড়তে হয় তাকে। এতে করে প্রথমার্ধেই ১০ জনের দলে পরিণত হয় কলম্বিয়া।
দ্বিতীয়ার্ধে পুরোটাই আধিপত্য দেখায় উরুগুয়ে। আক্রমণের পসরা সাজিয়ে বসে নুনেজ-দে লা ক্রুজরা। তবে বাজে ফিনিশিংয়ে কারনে গোলের দেখা পায়নি উরুগুয়ে। ম্যাচের ৭১ মিনিটে খুব সহজ এক সুযোগ মিস করেন লুইস সুয়ারেজ। এই গোল পেলে খেলা টাইব্রেকারে গড়াত। এদিকে কলম্বিয়াও নিশ্চিত গোলের সুযোগ মিস করেছে। উরুগুয়ের গোলরক্ষককে একা পেয়েও দুইবার গোল করতে ব্যর্থ হয়েছে কলম্বিয়া।
শেষ পর্যন্ত এক গোলে জয় নিয়েই ফাইনালে জায়গা করে নেয় তারা। এর ফলে ২৩ বছর পর কোপার ফাইনালে জায়গা করে নিল কলম্বিয়া। ২০০১ সালে ফাইনালে উঠে মেক্সিকোকে হারিয়ে শিরোপা জিতেছিল তারা।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, Bangladesherkhela.com এর দায়ভার নেবে না।