ঢাকাSunday , 10 March 2024
  1. world cup cricket t20
  2. অলিম্পিক এসোসিয়েশন
  3. অ্যাথলেটিক
  4. আইপিএল
  5. আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আরচারি
  8. এশিয়া কাপ
  9. এশিয়ান গেমস
  10. এসএ গেমস
  11. কমন ওয়েলথ গেমস
  12. কাবাডি
  13. কুস্তি
  14. ক্রিকেট
  15. টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ

শিরোপা উদযাপনের মধ্যমণি ইয়ারজান

Sahab Uddin
March 10, 2024 9:49 pm
Link Copied!

ভারতকে টাইব্রেকারে ৩-২ গোলে হারিয়ে সাফ অনূর্ধ্ব-১৬ নারী চ্যাম্পিয়নশিপের শিরোপা জিতেছে বাংলাদেশ। আজ (রোববার) নেপালের কাঠমান্ডুতে টুর্নামেন্টের ফাইনালে বাংলাদেশের জয়ে বড় ভূমিকা রেখেছেন গোলরক্ষক ইয়ারজান বেগম। তিনি ভারতের তিনটি শট ঠেকিয়েছেন।

টাইব্রেকারে বাংলাদেশের ৩ গোল করেছেন মরিয়ম, থুইনু ও সাথী মুনদা। সুরভী আকন্দ প্রীতি নিয়েছিলেন প্রথম শট। তার শট ঠেকিয়ে দিয়েছিলেন ভারতের বদলি গোলরক্ষক সুরাজমনি কুমারী। আলপি আক্তারের শট ফিরে আসে পোস্টে লেগে।

গোলরক্ষক ইয়ারজান ভারতের আলেনা, বনি দিলিয়া ও দিভানি লিদনার শট ঠেকিয়ে বাংলাশেকে এনে দিয়েছেন শিরোপা। মেয়েদের অনূর্ধ্ব-১৬ চ্যাম্পিয়নশিপ এবারই প্রথম হলো। বাংলাদেশ প্রথম টুর্নামেন্টের শিরোপা জিতে গড়লো নতুন ইতিহাস।

গত মাসে ঢাকায় অনুষ্ঠিত সাফ অনূর্ধ্ব-১৯ নারী চ্যাম্পিয়নশিপে বাংলাদেশ ও ভারত যুগ্ম চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল। এই টুর্নামেন্টে বাংলাদেশ লিগ পর্বে ভারতকে হারিয়েছিল ৩-১ গোলে। সবগুলো ম্যাচ জিতে বাংলাদেশের মেয়েরা অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হয়েই দেশে ফিরছে। অনূর্ধ্ব-১৬ টুর্নামেন্টের শিরোপা জয়ের মাধ্যমে বাংলাদেশের নারী ফুটবলের সাফল্যের খাতায় যোগ হলো আরেকটি অর্জন।

এর আগে বাংলাদেশ ও ভারতের ফাইনাল লড়াইয়ের নির্ধারিত ৯০ মিনিটের খেলা শেষ। প্রথমার্ধে ভারত ১-০ গোলে এগিয়ে ছিল। ৭০ মিনিটে বাংলাদেশের মরিয়ম বিনতে আন্না গোল করে সমতা আনেন। কোনো দল আর গোল করতে না পারায় নির্ধারিত সময়ের খেলা

শুরু থেকেই চাপ প্রয়োগ করে খেলতে থাকে ভারতের মেয়েরা। বাংলাদেশ ছিল এলোমেলো। ভুল পাস ও সমন্বয়হীনতায় শুরুর দিকে ছন্নছাড়া ছিল সাইফুল বারী টিটুর দল। সে সুযোগ কাজে লাগিয়ে চতুর্থ মিনিটেই এগিয়ে যায় ভারত।

মাঝ মাঠ থেকে উড়ে আসা বল ঠিকঠাকমতো ডিফেন্স করতে পারেননি বাংলাদেশের খেলোয়াড়রা। বল বের করে নিয়ে বক্সে ঢুকে পড়েন আনুসকা কুমারী। তিনি বাম দিকে ঢুকে কোনাকুনি শটে বল জালে জড়িয়ে দেন দ্বিতীয় পোস্ট দিয়ে।

বিরতির বাঁশির দুই মিনিট আগে বাংলাদেশ সমতায় ফেরার ভালো সুযোগ পেয়েছিল। সাথীর কর্নার রুখে দেন ভারতের গোলরক্ষক মুন্নী । তবে ৭০ মিনিটে বদলি অনন্য মুরমু বিথীর কর্নার থেকে গোল করেন বাংলাদেশের মরিয়ম বিনতে আন্না।

বাংলাদেশ শুরুতে এলোমেলো ফুটবল খেললেও আস্তে আস্তে গুছিয়ে ওঠে। বিশেষ করে দ্বিতীয়ার্ধে। ক্রানুচিংয়ের বদলে অনন্যা মুরমু বিথি ও ফাতেমা আক্তারের জায়গায় মমিতাকে নামানোর পর বাংলাদেশের খেলার গতি বদলে যায়। ভারতের ওপর প্রচণ্ড চাপ সৃষ্টি করে বাংলাদেশ সফল হয় ৭০ মিনিটে।

 

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, Bangladesherkhela.com এর দায়ভার নেবে না।