ঢাকাWednesday , 15 March 2023
  1. অনূর্ধ্ব ১৯ বিশ্বকাপ
  2. অলিম্পিক এসোসিয়েশন
  3. আইপিএল
  4. আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি
  5. আন্তর্জাতিক
  6. এশিয়া কাপ
  7. এশিয়ান গেমস
  8. এসএ গেমস
  9. কমন ওয়েলথ গেমস
  10. কাবাডি
  11. কুস্তি
  12. ক্রিকেট
  13. টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ
  14. টেনিস
  15. তায়কোয়ান্ডো

বদলে যাচ্ছে বিশ্বকাপ ফুটবল

parag arman
March 15, 2023 6:00 am
Link Copied!

বদলে যাচ্ছে ফুটবল বিশ্বকাপ। তাতে পরের বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠলে লিওনেল মেসিদের খেলতে হবে আরো একটি বেশি ম্যাচ। ২০২৬ সাল থেকেই নতুন চেহারায় দেখা যাবে ফিফা বিশ্বকাপকে। বাড়ছে দলের সংখ্যা। বাড়বে খেলার সংখ্যাও। সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হলেও ফিফার গভর্নিং কাউন্সিল এখনও সরকারিভাবে অনুমোদন দেয়নি।

আগামী ফুটবল বিশ্বকাপ যৌথভাবে আয়োজন করবে আমেরিকা, কানাডা এবং মেক্সিকো। ফিফার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী পরের বিশ্বকাপ থেকে ৩৬টির বদলে অংশ নেবে ৪৮টি দেশ। প্রতিটি গ্রুপে আগের মতোই থাকবে চারটি করে দল। আটটির বদলে গ্রুপের সংখ্যা বেড়ে হবে ১২। দলের সংখ্যা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে বাড়বে বিশ্বকাপে ম্যাচের সংখ্যাও।

ফিফার পরিকল্পনা অনুযায়ী ম্যাচের সংখ্যা বাড়বে ২৪টি। ম্যাচ হবে মোট ১০৪টি। বিশ্বকাপ চলবে ৪০ দিন ধরে। যে দু’দল ফাইনালে উঠবে তাদের খেলতে হবে আটটি করে ম্যাচ। অর্থাৎ, এখনকার থেকে একটি ম্যাচ বেশি। বিশ্বকাপ ফুটবলের দল বাড়ানো নিয়ে ফিফার সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত। তবে এখনও পর্যন্ত এই সিদ্ধান্তে অনুমোদন দেয়নি গভর্নিং কাউন্সিল। ফিফা ফুটবলের আরও প্রসারের জন্য নীতিগত সিদ্ধান্ত নিলেও গভর্নিং কাউন্সিলের অনুমোদন ছাড়া কার্যকর করা সম্ভব নয়।

ফিফা সূত্র জানায়, গভর্নিং কাউন্সিলের অনুমোদন গুরুত্বপূর্ণ হলেও তা অনেকটাই আনুষ্ঠানিক। কাউন্সিলের সদস্য সংখ্যা ৩৬। নতুন ফরম্যাটে বিশ্বকাপের প্রতিটি গ্র“পে ৪ টি করে দল থাকবে। ১২ গ্র“পের সেরা দুটি করে দল মোট ২৪টি দলের সঙ্গে সেরা আটটি তৃতীয় স্থানের দল সুযোগ পাবে রাউন্ড ৩২-এ। সেখান থেকে শুরু হবে নকআউট পর্ব। ফিফার এক কর্তা বলেছেন, ‘‘বিশ্বকাপের দল এবং ম্যাচের সংখ্যা বাড়ানো নিয়ে কোনও সমস্যা নেই। ২০২৬ সালের জন্য সেভাবেই পরিকল্পনা করা হয়েছে। গভর্নিং কাউন্সিলে সর্বসম্মতভাবেই গৃহীত হবে এই সিদ্ধান্ত।’’ ফিফা সভাপতি জিয়ানি ইনফান্তিনো ঘনিষ্ঠ কর্তাদের জানিয়েছেন, ছ’টি কনফেডারেশনের শীর্ষ কর্তাদের সঙ্গে কথা বলেছেন তিনি। কেউই বিশ্বকাপের দল বাড়ানো নিয়ে আপত্তি করেননি।

ফিফা যতটা সহজভাবে দেখছে, বিষয়টা ততটা সহজ না-ও হতে পারে। কারণ ম্যাচ এবং প্রতিযোগিতার সময় বাড়ায় খুব একটা খুশি নয় পেশাদার ফুটবলারদের সংগঠন। উদ্বিগ্ন ফুটবল ক্লাবগুলির সংগঠনও। ফিফা কর্মকর্তারা অবশ্য আশাবাদী। তাঁদের দাবি, প্রথমত অর্ধেকের বেশি দলকেই বেশি ম্যাচ খেলতে হবে না। প্রতিযোগিতার সময় বাড়তে পারে সর্বোচ্চ ১০ দিন। তাই ক্লাবগুলির সূচিতে তেমন সমস্যা হবে না। সবদিক ভেবেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, Bangladesherkhela.com এর দায়ভার নেবে না।