ঢাকাSaturday , 23 December 2023
  1. world cup cricket t20
  2. অলিম্পিক এসোসিয়েশন
  3. অ্যাথলেটিক
  4. আইপিএল
  5. আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি
  6. আন্তর্জাতিক
  7. আরচারি
  8. এশিয়া কাপ
  9. এশিয়ান গেমস
  10. এসএ গেমস
  11. কমন ওয়েলথ গেমস
  12. কাবাডি
  13. কুস্তি
  14. ক্রিকেট
  15. টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ

নিউজিল্যান্ডকে উড়িয়ে দেয়া ম্যাচে যত রেকর্ড

Sahab Uddin
December 23, 2023 5:49 pm
Link Copied!

নিউজিল্যান্ডের মাটিতে তাদের বিপক্ষে ওয়ানডেতে বাংলাদেশের জয় যেন আকাশ কুসুম কল্পনা। বছরের পর বছর ব্ল্যাকক্যাপসদের ডেরায় খেলেও ওয়ানডেতে জয়ের দেখা মিলছিল না। যার দেখা মিলেছিল চলতি সিরিজের প্রথম দুটি ওয়ানডেতেও। কিন্তু তৃতীয় ওয়ানডেতে যেন ভাগ্য বিধাতা চেয়ে দেখলেন টাইগারদের প্রতি। এতে করে তাসমান দ্বীপের দেশটিতে প্রথম জয় তুলে নিয়েছে বাংলাদেশ।
আর কাঙ্ক্ষিত সেই জয়টি ধরা দিয়েছে নিউজিল্যান্ডের মাটিতে ১৯তম ওয়ানডেতে গিয়ে। যেখানে ২০১৫ সালের বিশ্বকাপে স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে জয় পেয়েছিল টাইগাররা। সে হিসাবে করলে কিউইদের মাটিতে এটি হবে টাইগারদের ২০তম ম্যাচ। তবে দেশের বাইরে যেসব জায়গায় বাংলাদেশ কমপক্ষে ২০টি ম্যাচ খেলেছে তার মধ্যে সবচেয়ে কম জয় নিউজিল্যান্ডেই।

শনিবার (২৩ ডিসেম্বর) ভোর ৪টায় নিউজিল্যান্ডের নেপিয়ারে মাঠে নামে বাংলাদেশ ও নিউজিল্যান্ড। তৃতীয় ওয়ানডেতে টস হেরে আগে ব্যাট করতে নেমে টাইগার বোলারদের দাপটে ৩১.৪ ওভারে মাত্র ৯৮ রানে অলআউট হয়ে যায় স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড। দলের হয়ে সর্বোচ্চ ২৬ রান আসে উইল ইয়াংয়ের ব্যাট থেকে। বাংলাদেশের হয়ে বল হাতে ৩টি করে উইকেট নিয়েছেন তানজিম সাকিব, শরিফুল ইসলাম ও সৌম্য সরকার। জবাবে খেলতে নেমে এক উইকেট হারিয়ে ১৫ ওভার ১ বলে লক্ষ্যে পৌঁছে যায় বাংলাদেশ। ৫১ রান করে অপরাজিত থাকেন নাজমুল হোসেন শান্ত।

এই ঐতিহাসিক ম্যাচে বেশ কয়েকটি রেকর্ড হয়েছে। আসুন দেখে নেই সেই রেকর্ডগুলো কি কি-

২০১৬ সালে বাংলাদেশের বিপক্ষে নেলসনে সবশেষ অলআউট হয়েছিল নিউজিল্যান্ড। সেবার তারা ২৫১ রান করে ৬৭ রানে জয় তুলে মাঠ ছেড়েছিল কিউইরা। তবে এবার আর সে সুযোগ হয়নি। উল্টো তারা হেরেছে ৯ উইকেটের বিশাল ব্যবধানে।
বাংলাদেশের বিপক্ষে নিউজিল্যান্ডের সর্বনিম্ন স্কোর আজকের ৯৮ রান। এর আগের সর্বনিম্ন ছিল ১৬২ রান। যেটি ২০১৩ সালে হয়েছিল মিরপুরে। সব মিলিয়ে ওয়ানডেতে এ নিয়ে ৯ম বারের মতো ১০০-এর নিচে অলআউট হলো তারা। দেশের মাটিতে যা চতুর্থবার ও ২০০৭ সালের পর প্রথমবার।
এর আগে দুই প্রতিপক্ষকে শতরানের আগে অলআউট করার কৃতিত্ব ছিল বাংলাদেশের। আজ তালিকায় যুক্ত হলো নিউজিল্যান্ডের নাম। বাংলাদেশ ২০০৯ সালে জিম্বাবুয়েকে এবং ২০১১ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে এর আগে শতরানের আগে অলআউট করার কৃতিত্ব দেখায়। দুটি ম্যাচের ভেন্যুই ছিল চট্টগ্রাম।

মাত্র দ্বিতীয়বার কোনো ওয়ানডেতে ১০ উইকেটই নিলেন কৃতিত্ব দেখাল বাংলাদেশের পেসাররা। আজ তানজিম সাকিব, শরিফুল ইসলাম ও সৌম্য সরকার নিয়েছেন ৩টি করে, ১টি মোস্তাফিজুর রহমান। এর আগে একমাত্র ঘটনাটি ছিল চলতি বছরের মার্চে সিলেটে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে। সেবার বাংলাদেশের হয়ে ১০টি উইকেট নিয়েছিলেন হাসান মাহমুদ (৫), তাসকিন আহমেদ (৩) ও ইবাদত হোসেন (২)।
১৪তম বাংলাদেশি বোলার হিসেবে ওয়ানডেতে ৫০ উইকেট নেয়ার কৃতিত্ব দেখালেন পেসার শরিফুল ইসলাম। এ ক্ষেত্রে তিনি তৃতীয় দ্রুততম। এ মাইলফলক স্পর্শ করতে তার লাগল ৩৩ ম্যাচ। ২৭ ম্যাচে ৫০ উইকেট নিয়ে দ্রুততম রেকর্ডটি মোস্তাফিজুর রহমানের, যিনি ছাড়িয়ে গিয়েছিলেন আবদুর রাজ্জাকের ৩২ ম্যাচের রেকর্ড।
ঘরের মাটিতে টানা ১৭ ওয়ানডে জেতার রেকর্ড নিয়ে নেপিয়ারে নেমেছিল নিউজিল্যান্ড, তাদের সামনে ছিল অস্ট্রেলিয়ার মাইলফলকটি স্পর্শ করার। কিন্তু ৯ উইকেটের বিশাল হারে ১৭ ম্যাচেই থামতে হলো তাদের। সবচেয়ে বেশি টানা ১৮ ম্যাচের জয়ের রেকর্ড অস্ট্রেলিয়ার। কিউইরা এর আগে দেশের মাটিতে সবশেষ হেরেছিল ২০১৯ সালের ৩ ফেব্রুয়ারি, ভারতের কাছে ওয়েলিংটনে।

শাহরিয়ার নাফিসের (২০০৬) পর দ্বিতীয় বাংলাদেশি হিসেবে এক পঞ্জিকাবর্ষে ১ হাজার রানের মাইলফলক স্পর্শ করার সুযোগ ছিল শান্তর সামনে। কিন্তু শেষ ওয়ানডেতে ৫১ রানে অপরাজিত থাকায় ৮ রানের আক্ষেপ থেকে গেল তার। এতে করে ২০২৩ সালে ৯৯২ রানেই থামলেন তিনি। তবে নাফিসকে এক জায়গায় ছাড়িয়ে গেছেন শান্ত। এক পঞ্জিকাবর্ষে কমপক্ষে ৮০০ রান করা বাংলাদেশি ব্যাটারদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি গড় এখন তার (৪১.৩৩)। নাফিসের ছিল ৪১.৩২।
তবে নাজমুল শান্ত এক পঞ্জিকাবর্ষে ১ হাজার রানের মাইলফলক স্পর্শ করতে না পারলেও নিউজিল্যান্ডের উইল ইয়ং ঠিকই পেরেছেন। এর মধ্যদিয়ে তিনি নিউজিল্যান্ডের ষষ্ঠ ব্যাটসম্যান হিসেবে এক পঞ্জিকাবর্ষে ১ হাজার রান করার কৃতিত্ব দেখালেন। তার আগে কিউইদের হয়ে এক বছরে ১ হাজার রানের কীর্তি আছে—রজার টুজ (২০০০), মার্টিন গাপটিল, রস টেলর ও কেইন উইলিয়ামসন (২০১৫) ও ড্যারিল মিচেলের (২০২৩)।
বাংলাদেশ আজকে নিউজিল্যান্ডের দেয়া টার্গেট ২০৯ বল বাকি রেখে তুলে নেয়। যেটি ওয়ানডেতে তৃতীয় সর্বোচ্চ বল হাতে রেখে জয়ের রেকর্ড।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, Bangladesherkhela.com এর দায়ভার নেবে না।