ভোর ৫:৪০, মঙ্গলবার, ১৬ই জুলাই, ২০১৮ ইং

বিশ্বকাপ শুরুর আগে, ক্রোয়েশিয়ার প্রেসিডেন্ট কোলিন্দা গ্র্যাবার কিতারোভিচের নাম কেউ শুনেছেন বলে জানা নেই। তবে বিশ্বকাপে চ্যাম্পিয়ন হতে না পারলেও, খেলোয়াড়দের পাশাপাশি রাষ্ট্রপতিও জিতে নিয়েছেন বিশ্ববাসীর হৃদয়। নক আউটে ক্রোয়াটদের লড়াই মানেই গ্যালারিতে উচ্ছ্বল কোলিন্দা। তবে ন্যাটো-বৈঠকের জন্য থাকতে পারেননি সেমিফাইনালে‚ ইংল্যান্ড-ক্রোয়েশিয়া ম্যাচে। সেই অনুপস্থিতি সুদে-আসলে উশুল করেছেন ফাইনালে‚ ফ্রান্স-ক্রোয়েশিয়া মহারণে।

ফুটবল মাঠে গেছেন আপাদমস্তক ফুটবলপ্রেমী হয়ে। তার জন্য প্রোটোকল ভাঙতে দ্বিধা করেননি। ভিআইপি বক্সে‚ যেখানে বসে কোলিন্দা খেলা দেখেন‚ মহিলা রাষ্ট্রপ্রধানদের জন্য সেখানকার পোশাকবিধি হল লম্বা গাউন জাতীয় ফর্ম্যাল পোশাক। কিন্তু কোলিন্দা সবসময় ঝলমল করছেন লাল-সাদায়। অর্থাৎ দেশের জাতীয় পতাকার বা জাতীয় প্রতীকের পোশাকে। বাকি ক্রোয়াট সমর্থকরা যেভাবে একাত্ম হয়েছেন‚ সেভাবেই মাঠের আবহের সঙ্গে মিলেমিশে যেতে চেয়েছেন এবং পেরেওছেন তিনি।

৫০ বছর বয়সী কোলিন্দার জন্ম সাবেক যুগোস্লাভিয়ায়। ১৯৬৮-র ২৯ এপ্রিল। জাগরেব‚ ভিয়েনা‚ ওয়াশিংটন এবং হার্ভার্ড- বিভিন্ন শহরের নামী প্রতিষ্ঠানে শেষ করেছেন উচ্চশিক্ষা। জানেন একাধিক ভাষা। ক্রোয়েশিয়ান ছাড়াও সাবলীলভাবে বলতে পারেন ইংরেজি‚ স্প্যানিশ এবং পর্তুগিজ।

১৯৯৩ সালে রাজনীতিতে যোগদান‚ Croatian Democratic Union-এ। দক্ষতার সঙ্গে পালন করেন দলের বিভিন্ন দায়িত্ব। অবশেষে ২০১৫ সালে র্নিবাচিত হন দেশের রাষ্ট্রপতি। তিনি দেশের চতুর্থ তথা প্রথম মহিলা প্রেসিডেন্ট। এক সময় আমেরিকায় ক্রোয়েশিয়ান রাষ্ট্রদূত হয়ে কর্মরত ছিলেন। ছিলেন ন্যাটো-র অ্যাসিস্ট্যান্ট সেক্রেটারিও। এরপর ইভো জোসিপোভিককে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় হারিয়ে ক্রোয়েশিয়ার রাষ্ট্রপতি হন তিনি। এত গুরুগম্ভীর কূটনৈতিক দায়িত্বে থেকেও ১৯৯৬ সাল সংসারী জীবন শুরু করেন। বিয়ে করেছেন জ্যাকব কিতারোভিচকে। ১৭ বছরের মেয়ে ক্যাটারিনা এবং ১৫ বছর বয়সী ছেলে লুকা-র স্নেহময়ী মায়ের ভূমিকাতেও সমান উজ্জ্বল রাষ্ট্রপতি কোলিন্দা।

২০১৬ সালে একবার বিতর্কও উঁকি দিয়ে গিয়েছিল কোলিন্দার জীবনে। হঠাৎ করে মার্কিন মডেল কোকো অস্টিনের সঙ্গে তাঁর চেহারাগত সাদৃশ্য নিয়ে আলোড়িত হয় ইন্টারনেট। অস্টিনের বিকিনি পরা ছবি ঘুরতে থাকে কোলিন্দার ছবি বলে। সেসব বিতর্ক এখন ম্লান। কোলিন্দা গ্র্যাবার কিতারোভিচ এখন জাতীয় পতাকায় শোভিত এক ফুটবল-পাগল রাষ্ট্রপতি। যিনি দেশের লড়াইয়ের সাক্ষী থাকবেন বলে রাশিয়া উড়ে যেতেও দ্বিধা করেন না।

এত সবকিছুর পরেও বৃষ্টিভেজা মাঠে তাঁর উষ্ণ আলিঙ্গন নিয়ে কটাক্ষ চলতেই থাকবে। আলোচিত হবে তাঁর গালে ফরাশি প্রসিডেন্ট মাক্রনের চুম্বন। নিন্দুক চোখ দেখবে না ঐ আলিঙ্গনে কতটা সৌহার্দ্য ছিল। দেখবে না বিশ্বকাপের সেরা খেলোয়াড় লুকা মড্রিচকে জড়িয়ে ধরার সময় কোলিন্দার চোখেও জল ছিল। হাত ছোয়া দূরত্ব থেকে কাপ হারানোর বেদনাও ছিলো।

তুর্কমেনিস্তান চ্যাম্পিয়ন, রানার্সআপ বাংলাদেশ

শিরোপাটা ধরে রাখতে পারলো না স্বাগতিক বাংলাদেশ। ফাইনালে গিয়ে খেই হারিয়ে ফেলেছিল বাংলাদেশের ভলিবল তারকারা। গ্রুপ পর্ব ও সেমিতে বাংলাদেশ যেভাবে খেলেছিল তার ছিটেফোটাও ছিল না শুক্রবারের ফাইনালে। তুর্কমেনিস্তানের বিপক্ষে লড়াই কিছুটা জমিয়েও ভলিবলের শিরোপা হাতছাড়া করেছে বাংলাদেশ। বঙ্গবন্ধু এশিয়ান সেন্ট্রাল জোন ভলিবলের ফাইনালে তুর্কদের কাছে ৩-১ সেটে টাইটেল খোয়ায় আলিপোর আরজির শিষ্যরা।

মিরপুরের শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের প্রথম সেটে এক সময় ২২-২২ হয়ে যায় পয়েন্ট। সেখান থেকে তুর্করা এক পয়েন্ট ঘরে তোলার পর বাংলাদেশও এক পয়েন্ট নিয়ে ২৩-২৩ করে। পরে ২৪-২৪ এবং শেষ পর্যন্ত ২৫-২৪ ও ২৬-২৪ করে সেটই ঘরে তোলে লাল-সবুজের পতাকাধারীরা।

দ্বিতীয় সেটের শুরুতে পিছিয়ে পড়ে বাংলাদেশ। পরে ধীরে ধীরে খেলায় ফিরতে থাকে। বেশিরভাগ সময়ই অবশ্য অতিথিরাই পয়েন্টে এগিয়ে থেকেছে। সেখান থেকে এক সময় পয়েন্ট ১৫-১৫ করে ফেলে বাংলাদেশ। এই সেটও পরে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ে এগিয়ে যেতে থাকে। শেষ পর্যন্ত অবশ্য ২৫-২০ পয়েন্টে সেট জিতে নেয় তুর্করা। ম্যাচে ফেরে ১-১ সেটে সমতা।

তৃতীয় সেটে শুরুতেই এগিয়ে যায় বাংলাদেশ। অতিথিদের কাছ থেকে পাল্টা জবাবও আসতে থাকে। তুর্কমেনিস্তান এগিয়েও যায় দ্রুতই। ব্যবধান বাড়তে থাকে সময়ের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে। সুযোগ পেলেই পয়েন্ট তুলে নিচ্ছিল বাংলাদেশও। চাপটা ধরে রেখে অবশ্য ব্যবধান অনেক বাড়িয়ে নেয় তুর্কমেনিস্তান। ২০-১৫ পয়েন্ট করে ফেলে তারা। তবে শেষ পর্যন্ত ২৫-২১ পয়েন্টে সেট জিতে ২-১ ব্যবধানে এগিয়ে যায় অতিথিরা।

খেলা গড়ায় চতুর্থ সেটে। শুরুতেই পয়েন্ট তুলে নেয় বাংলাদেশ। লিডটা ধরে রেখেই এগোতে থাকে। কিন্তু ৯ পয়েন্টে যেয়ে সমান পয়েন্ট ঘরে তুলে ফেলে অতিথিরা। এরপর আবারও হাড্ডহাড্ডি লড়াইয়ে রোমাঞ্চ ছড়ায় কিছুক্ষণ। সেটের মাঝামাঝি এসে নিয়ন্ত্রণ হারাতে থাকে স্বাগতিকরা। ২৫-১৭ পয়েন্টে সেট হেরে শেষঅবধি শিরোপাই খোয়ায় বাংলাদেশ। আর ৩-১ সেটে জিতে শিরোপা উল্লাসে মাতে তুর্করা।

বাংলাদেশের লক্ষ্য শিরোপা ধরে রাখা

তুর্কমেনিস্তানকে শক্তিশালী মানলেও দ্বিতীয়বারের মতো এশিয়ান সিনিয়র মেনস সেন্ট্রাল জোন ইন্টারন্যাশনাল ভলিবল চ্যাম্পিয়নশিপের শিরোপা জয়ের স্বপ্ন ঠিকই দেখছেন বাংলাদেশের কোচ। আর উচ্চতা, কৌশল-সব দিক থেকেই বাংলাদেশের চেয়ে এগিয়ে তুর্কমেনিস্তান। প্রতিপক্ষকে তাই সমীহ করছেন আলি পোর আরোজি।

মিরপুরের শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে আজ শুক্রবার বেলা তিনটায় মুখোমুখি হবে দুই দল। শক্তিশালী কিরগিজস্তানকে হারিয়ে ফাইনালে ওঠায় বাংলাদেশ কোচ তুর্কমেনিস্তানকে হারাতেও আত্মবিশ্বাসী। তিনি জানান, ‘তারা খুবই পেশাদার দল। কিন্তু এটা নিয়ে আমাদের চিন্তার কিছু নেই। কেননা, উজবেকিস্তান, কিরগিজস্তানও ভালো দল ছিল; তারাও ভলিবলটা ভালো জানে। টেকনিক্যালি, টেকটিক্যালি তারা ভালো। এ মুহূর্তে আমাদের দলও ভালো ফর্মে আছে। আমরা জয়ের ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী।’ আরোজি বলেন, ‘ছেলেরা কঠোর পরিশশ্রম করেছে। আমাদের কৌশল, সামর্থ্য আমরা গত ম্যাচগুলোয় দেখিয়েছি। তবে ফাইনালটা কঠিন হবে। কেননা, তুর্কমেনিস্তানও ভালো প্রস্তুতি নিয়ে এসেছে।’
গ্রুপ পর্বে নেপালের কাছে প্রথম সেট হারের পর জিতেছিল বাংলাদেশ। মালদ্বীপের বিপক্ষে সরাসরি সেটে জিতেছিল দল। সেমি-ফাইনালে কিরগিজস্তানের বিপক্ষে জেতা ম্যাচেও প্রথম সেটে হেরেছিল বাংলাদেশ। ম্যাচের শুরুটা ভালো না হলেও খুব বেশি চিন্তিত নন ২০১৬ সালে বাংলাদেশকে প্রথম শিরোপা এনে দেওয়া কোচ।

এদিকে, কোনো সেট না হেরে ফাইনালে উঠে আসা তুর্কমেনিস্তানকে হারাতে হলে বিশেষ করে ব্লকিং ভালো করতে হবে বলে মনে করেন অধিনায়ক হরষিত বিশ্বাস। তিনি জানান, ‘সার্ভিস, ব্লক, অ্যাটাক সব বিভাগে যদি আমরা ভালো করতে পারি, তাহলে আমরা চ্যাম্পিয়ন হতে পারব। বিশেষ করে ব্ল­কিংয়ে ভালো করতে হবে। ভলিবলে ব্লকিং খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এটা ভালো হলে প্রতিপক্ষের মনোবল ভেঙে যায়; ম্যাচ জেতাও সহজ হয়ে যায়।’

ভলিবলকে ভালোবেসেই মাঠে আসা তুহিনের

আজ বুধবার বঙ্গবন্ধু এশিয়ান সিনিয়র মেনস সেন্ট্রাল জোন আন্তর্জাতিক ভলিবল চ্যাম্পিয়নশিপে মুখোমুখি দুই দেশ কিরগিজস্থান ও স্বাগতিক বাংলাদেশ। এই খেলা দেখতে মাঠে উপচে পড়া দর্শক। নানা প্রান্ত থেকে ছুটে আসনে স্কুল,কলেজের ছাত্র-ছাত্রী সহ নানা পেশার মানুষ। প্রিয় দলকে সমর্থন করার ইনডোর স্টেডিয়ামে আসেন ঢাকা-১৪ সংরক্ষিত আসনের এমপি সাবিনা আক্তার তুহিন‌ও।

মিরপুর শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে, তিনি জানান ভলিবলকে ভালোবেসেই মাঠে আসা তার। বাংলাদেশের খেলাকে সাবিনা আক্তার তুহিন‌ বলেন, ভলিবল আমাদের গ্রাম-গঞ্জের খেলা। ক্রিকেটর মতো এই খেলার জনপ্রিয়তা‌ও অনেক। এই খেলাকে আমাদের সব ক্ষেত্রে ছড়িয়ে দিতে হবে।
তিনি আরো বলেন, আন্তর্জাতিক খেলা যত বেশি আয়োজন করা যাবে ভলিবলের জনপ্রিয়তা‌ও তত বৃদ্ধি পাবে। তাছাড়া নতুন প্রজন্মকে এই খেলার প্রতি আকৃষ্ট করতে হলে বেশি বেশি খেলা আয়োজন করা উচিত।

সাবিনা আক্তার তুহিন‌ আশা করেন, ফাইনালও বাংলাদেশ জয়ের ধারা অব্যাহত রাখবে এবং দ্বিতীয়বারের মতো বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবলের শিরোপা জিতবে।

কিরগিজস্তানকে হারিয়ে ফাইনালে বাংলাদেশ

বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবলের ফাইনালে উঠেছে স্বাগতিক বাংলাদেশ। মিরপুর শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে আজ বুধবার তারা ৩-২ সেটে পরাজিত করে কিরগিজস্থানকে।

ফাইনালে উঠলে‌ও খেলার শুরুটা মোটেই ভালো হয়নি বাংলাদেশের। প্রথম সেটে কোনো প্রতিরোধ গড়ে তুলতে পারেনি লাল-সবুজ পতাকাধারীরা। হারতে হয় ২৫-১৫ পয়েন্ট ব্যাবধানে। দ্বিতৃীয় সেটে সমতায় ফেরার চেষ্টা শেষ পর্যন্ত সফল হয় আলীপোর আরজির দল।প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ দ্বিতীয় সেট জেতে হরষিতরা ২৫-২০ পয়েন্ট। তৃতীয় সেটটিতে‌ও হরিশত-কায়সারা জয়লাভ করে ২৫-১৯ পয়েন্টের ব্যবধানে। তবে চতুর্থ সেটে বাংলাদেশ আবার‌ও ব্যর্থতার পরিচয় দেয়। তাদের ব্যর্থতায় ২৫-১৩ ব্যাবধানে জিতে ম্যাচে ২-২ সেটে সমতা আনে কিরগিজস্তান। চূড়ান্ত সেটের খেলায় তৈরি হয় দারুণ রোমাঞ্চ। কিরগিজদের রক্ষণাত্মক কৌশল একের পর এক ভেঙ্গে দেয় বাংলাদেশ। ১৫-১৩ পয়েন্টে জিতে ফাইনালে পৌছে যায় স্বাগতিকরা। যেখানে শিরোপা লড়াইয়ে তাদের অপেক্ষায় তুর্কমেনিস্তান।

এদিকে, দিনের প্রথম খেলায় তুর্কমেনিস্তান ৩-০ সেটে নেপালকে পরাজিত প্রতিযোগিতার ফাইনাল নিশ্চিত করে। শুক্রবার বিকেল তিনটা তারা শিরোপা লড়াইয়ে মুখোমুখি হেব বাংলাদেশের।

ফাইনালে তুর্কমেনিস্তান

নেপালকে ৩-০ সেটে হারিয়ে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবলের ফাইনালে উঠেছে তুর্কমেনিস্তান। বিকেলে মিরপুর শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে প্রথম সেমিফাইনালের প্রায় পুরোটা সময় নিংন্ত্রণ ছিলো তুর্কমেনিস্তানের কাছেই।

নেপাল দল তেমন কোনো সুবিধাই করতে পারেনি তাদের সামনে। প্রথম সেটে ২৫-১৪ গেমে জিতে নেয়ার পর দ্বিতীয় সেটও তারা জেতে ২৫-১৮ পয়েন্টে। তৃতীয় সেটে একটু প্রতিরোধ গড়ার চেষ্টা করে হিমালয় কণ্যা নেপালের ভলিবল খেলোয়াড়রা। কিন্তু তাতে কোনো ফল হয়নি। পরের সেট ২৫-১৯ পয়েন্টে জয় পায় তুর্কমেনিস্তান। তাতে টানা তিন সেট জিতে ফাইনাল নিশ্চিত করে দলটি।

দ্বিতীয় সেমিতে জয়ী দলের সাথে আগামী শুক্রবার বিকেল পাঁচটায় শিরোপা লড়াইয়ে নামবে তুর্কমেনিস্তান।

উজবেকিস্তানকে হারিয়ে সেমিফাইনালে কিরগিজস্তান

বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবল চ্যাম্পিয়নশীপে ফাইনালে ‌ওঠার ম্যাচে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ হলো কিরগিজস্তান। গ্রুপের প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ শেষ ম্যাচে তারা ৩-২ সেটে পরাজিত করে উজবেকিস্তানকে।

মিরপুর শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে, ‘বি’ গ্রুপের শেষ ম্যাচে প্রথম সেটে ২৫-১৮ পয়েন্টে এগিয়ে যায় কিরগিস্তান। তবে পরের দুই সেট ২৪-২৬ ও ১৯-২৫ পয়েন্টে জিতে খেলাটা জমিয়ে তোলে উজবেকিস্তান। এরপর যেনো আবার ঘুম ভেঙে জেগে ‌ওঠে কিরগিজরা। শেষ দুই সেটে ২৫-১৮ ও ১৫-১৩ পয়েন্টের জয়ে শেষ চারে জায়গা করে নেয় কিরগিস্তান। টুর্নামেন্টের প্রথম সেমিফাইনালে আগামীকাল বিকেল তিনটায় স্বাগতিক বাংলাদেশের বিপক্ষে মাঠে নামবে তারা।

সেমিফাইনালে বাংলাদেশ

বঙ্গবন্ধু এশিয়ান সিনিয়র মেনস সেন্ট্রাল জোন আন্তর্জাতিক ভলিবল চ্যাম্পিয়নশিপে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে সেমিফাইনালে উঠলো স্বাগতিক বাংলাদেশ। মিরপুর শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে আজ সোমবার বিকেলে তারা ৩-০ সেটে পরাজিত করে মালদ্বীপকে।

খেলার প্রথম থেকে আক্রাণনাত্নক মেজাজে ছিল আলীপোরের দল। প্রথম সেটে জয় পায় ২৫-১৫ পয়েন্টে। দ্বিতীয় সেটেও তেমন কোনো প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে পারেনি মালদ্বীপ ২৫-১৫ পয়েন্ট জেতে সেই সেট। তবে তৃতীয় সেটে প্রতিরোধ গড়ায় চেষ্টায় বাংলাদেশের সঙ্গে সমান তালে লড়ে মালদ্বীপ। কিন্ত সেই চেষ্টা কাজে লাগাতে দেয়নি হরষিত-কায়সারা। শেয় পর্যন্ত তৃতীয় সেট বাংলাদেশ জিতে নেয় ২৫-২২ পয়েন্টে। এই জয়ে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়েই প্রতিযোগিতার সেমিফাইনাল নিশ্চিত করলো আসরের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ।

এদিকে, দিনের প্রথম খেলায় তুর্কমেনিস্তান ৩-১ সেটে উজবেকিস্তানকে পরাজিত করে ‘বি’ গ্র“প থেকে সেমিফাইনাল নিশ্চিত করে। তারা জয় পায় ২৫-১৮, ২৬-২৮, ২৫-২২ ও ২৫-১৮ পয়েন্টে।

গ্রুপ সেরার টার্গেট বাংলাদেশের

বঙ্গবন্ধু এশিয়ান সিনিয়র মেনস সেন্ট্রাল জোন আন্তর্জাতিক ভলিবল চ্যাম্পিয়নশিপে গত শনিবার জয় দিয়ে শুরু করেছিল বাংলাদেশ। টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী ম্যাচে শক্তিশালী নেপালকে ৩-১ সেটে উড়িয়ে দিয়েছে হরষিত-কায়সাররা। আজ সোমবার গ্রুপ পর্বে দ্বিতীয় ম্যাচ বাংলাদেশের। প্রতিপক্ষ মালদ্বীপ। মিরপুর শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে বিকেল পাচটায় দু’দলের ম্যাচ শুরু হবে। এ ম্যাচ জিতলে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে সেমিফাইনালে পা রাখবে বাংলাদেশ।

মালদ্বীপের বিপক্ষে জয় ভিন্ন কিছুই ভাবছে না স্বাগতিকরা। নেপালকে হারানোর পর জয়ের ক্ষুধা আরো বেড়ে গেছে আলীপোর শিষ্যদের। মালদ্বীপের বিপক্ষে ম্যাচ সামনে রেখে রবিবার হালকা অনুশীলন করেছেন হরষিৎরা। মূলত রিকোভারি অনুশীলন ছিল। মালদ্বীপের বিপক্ষে ম্যাচ সামনে রেখে অধিনায়ক হরষিৎ বিশ্বাস বলেন, মালদ্বীপের বিপক্ষে জয় ভিন্ন আমরা কিছুই ভাবছি না। গতবার এই আসরেই মালদ্বীপকে আমরা হারিয়েছিলাম। ৩-০ সেটে হেরেছিল তারা। এবারো আমাদের লক্ষ্য তাদের কোনো সুযোগ না দিয়ে ম্যাচ জেতা।

গ্রুপ সেরায় চোখ বাংলাদেশের। মালদ্বীপকে আজ সোমবার হারাতে পারলে সেই লক্ষ্য পূরণ হবে। এ বিষয়ে হরষিত বলেন, নেপালের চেয়ে মালদ্বীপ অপেক্ষাকৃত সহজ প্রতিপক্ষ। তবে বড় টুর্নামেন্টে অনেক কিছুই হতে পারে। তাই আমরা কোনো দলকেই হালকাভাবে নিচ্ছি না। কোচের নির্দেশনা মেনে খেলতে পারলে ম্যাচ জেতা খুবই সম্ভব। আর এটা করতে পারলে গ্রুপ সেরাও হতে পারবো। ফেডারেশন কর্তারাও আমাদের নানাভাবে উদ্দীপিত করছেন। নেপালকে হারানোর পর দলের প্রত্যেকেই ১০ হাজার টাকা করে অর্থ পুরস্কার পেয়েছি। এই উৎসাহ, অনুপ্রেরণা আমাদের মালদ্বীপের বিপক্ষে ভালো খেলতে সহায়তা করবে।

গত আসরের বাংলাদেশের অন্যতম ভরসার প্রতীক ছিলেন হাই অ্যাটাকার সাঈদ আল জাবির। ফাইনালে পেয়েছিলেন সেরা খেলোয়াড়ের পুরস্কার। একই সঙ্গে দলের অধিনায়কও ছিলেন। এবারের আসরে অবশ্য অসুস্থতার কারণে খেলতে পারছেন না। তার জায়গায় নেয়া হয়েছে অভিজ্ঞ কায়সার হামিদকে। মালদ্বীপ ম্যাচ প্রসঙ্গে কায়সার বলেন, জাবির নিঃসেন্দেহে আমাদের দলের সেরা খেলোয়াড়। অসুস্থতার কারণে সে খেলতে পারছে না। এবার আমাকে তার জায়গায় নেয়া হয়েছে। গতবারও আমি দলে ছিলাম। তবে স্ট্যান্ড বাই হিসেবে। এবার মূল দলের হয়ে নেপালের ম্যাচে খেলেছি। দল আমার কাছে যেটা চাইছে সেটার পুরোপুরি দেয়ার চেষ্টা করছি। আশাকরি মালদ্বীপের বিপক্ষে ম্যাচেও কোচের প্রত্যাশা পূরণ করতে পারব।

বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবলে রোববার বাংলাদেশের কোনো ম্যাচ ছিল না। তবে গ্রুপ বি’ তে থাকা কিরগিজস্তান ও তুর্কমেনিস্তানের ম্যাচ ছিল। কিরগিজস্তান গত আসরের ফাইনালিস্ট। ফাইনালে বাংলাদেশের কাছে হেরে রানার্সআপ হয়েছিল। সেই রানার্স আপ দলই এবার হার দিয়ে টুর্নামেন্ট শুরু করেছে। তুর্কমেনিস্তানের কাছে ৩-০ সেটে হেরেছে দলটি। তুর্কমেনিস্তান টুর্নামেন্টে সবচেয়ে শক্তিশালী দল এবং এশিয়ান সেন্ট্রাল জোন ভলিবলের সাবেক চ্যাম্পিয়নও। এই দলটি গত বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবলে অবশ্য অংশ নেয়নি।

জয়ে শুরু বাংলাদেশের

প্রথম সেটে হারলেও পরে টানা তিন সেট জিতে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবল প্রতিযোগিতায় নেপালকে পরাজিত করে শুভ সূচনা করেছে স্বাগতিক বাংলাদেশ।

মিরপুর শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে, ছয় দেশের এই প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজামান খান কামাল। এ সময় যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বীরেন শিকদার, বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি নাজমুল হাসান ও ভলিবল ফেডারেশনের সভাপতি আতিকুল ইসলাম।

প্রতিযোগিতার উদ্বোধনী ম্যাচের প্রথম সেটে, ২৬-২৪ পয়েন্টে নেপালের কাছে হেরে যায়, স্বাগতিকরা। পরে টানা তিন সেট ২৫-১৮, ২৫-১৪ ও ২৫-২১ পয়েন্টে জিতে হরষিত বিশ্বাসের দল। এতে জয় দিয়েই শিরোপা ধরে রাখার মিশন শুরু করলো বাংলাদেশ।

আবার‌ও শিরোপা চায় বাংলাদেশ

বঙ্গবন্ধু এশিয়ান সিনিয়র মেনস সেন্টাল জোন ইন্টারন্যাশনাল ভলিবল চ্যাম্পিয়ানশীপে আবার‌ও চ্যাম্পিয়ন হতে চায় স্বাগতিক বাংলাদেশ। আগামী শনিবার থেকে শুরু হবে সাতদিনের এই টুর্নামেন্ট।

২০১৬ সালে প্রথম বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবল টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল বাংলাদেশ। দুই বছর পর আবার‌ও শুরু হতে যাচ্ছে এই টুর্নামেন্ট। শনিবার থেকে মিরপুরের শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে, এই আসরের ছয়টি দল অংশ নেবে। দলগুলো হল- স্বাগতিক বাংলাদেশ, নেপাল, তুর্কমেনিস্তান, কিরগিজস্তান, মালদ্বীপ ও উজবেকিস্তান। দলগুলো দুই গ্রুপে বিভক্ত হয়ে খেলবে। ‘এ’ গ্রুপে রয়েছে বাংলাদেশ, মালদ্বীপ ও নেপাল। আর ‘বি’ গ্রুপে রয়েছে কিরগিজস্তান, তুর্কমেনিস্তান ও উজবেকিস্তান। ২৭ এপ্রিল পর্যন্ত চলবে এই প্রতিযোগিতা। ২১ থেকে ২৪ এপ্রিল পর্যন্ত হবে গ্রুপপর্বের খেলা। ২৫ এপ্রিল হবে দুটি সেমিফাইনাল। আর ২৭ এপ্রিল বিকেল ৩টায় হবে প্রতিযোগিতার ফাইনাল। তার আগে সকাল সাড়ে দশটায় হবে তৃতীয় স্থান নির্ধারণী ম্যাচ।

টুর্নামেন্ট সম্পর্কে জানানোর জন্য রাজধানীর একটি অভিজাত হোটেলে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। সংবাদ সম্মেলনে বাংলাদেশ ভলিবল দলের নতুন অধিনায়ক হরিষৎ বিশ্বাস শিরোপা অক্ষুন্ন রাখার কথা জানান। তিনি বলেন, ‘অধিনায়ক হিসেবে এটা আমার প্রথম টুর্নামেন্ট। আমাদের প্রথম লক্ষ্য গত আসরের মতো এবার‌ও শিরোপা ধরে রাখা। এছাড়া গত আসরের চেয়ে এবার আমাদের দলটা আরো বেশি শক্তিশালী। অভিজ্ঞ খেলোয়াড়ের পাশাপাশি প্রতিভাবান খেলোয়াড়রাও রয়েছে দলে। ইরানে ২১ দিনের প্রশিক্ষণ ক্যাম্প ও প্রস্তুতি ম্যাচ খেলেছি। আশা করছি আমরা শ্রেষ্ঠত্ব ধরে রাখতে পারব।’

ভলিবল ফেডারেশেনর সভাপতি আতিকুল ইসলাম বলেন, ‘ভলিবল এক সময়কার খুবই জনপ্রিয় খেলা। গ্রাম বাংলার খেলা। বাপ-দাদাদের খেলা। আমাদের রক্তের খেলা। এই ভলিবলকে যদি আমরা স্কুল-কলেজে ছড়িয়ে দিতে পারি তাহলে এক সময় আমাদের ভলিবলের হারানো ঐতিহ্য ফিরে আসতে পারে। এই টুর্নামেন্টকে সামনে রেখে আমরা ভলিবল দলকে ২১দিন ইরানে প্রশিক্ষণ ক্যাম্প করিয়েছি। সেখানে তারা ৮টি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলেছে। ইরান ভলিবলের র‌্যাঙ্কিংয়ে বিশ্বে ৬ নম্বর। গেল বছর যেসব দল খেলেছিল, তারা এবারও এসেছে। রানার্স-আপ হওয়া দলটিও এবার এসেছে। তারা গেল দুই বছর ধরে প্রস্তুতি নিয়েছে। তাদের জাতীয় দলই পাঠিয়েছে। নেপাল ভলিবলকে জাতীয় খেলা হিসেবে ঘোষণা করেছে। তারাও এসেছে। শিরোপা ধরে রাখাইটাই হবে আমাদের জন্য চ্যালেঞ্জ। তবে আশা করব আমাদের ছেলেরা শিরোপা অক্ষুন্ন রাখবে। তাদের সেরাটা দিয়ে খেলবে।’

সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকু ও এশিয়ান ভলিবল টেকনিক্যাল কমিটির প্রতিনিধি মাসুদ ইয়াদজান পানাহ।

বঙ্গবন্ধু ভলিবল চ্যাম্পিয়ানশীপের ফিকচার

তারিখ            ম্যাচ নং           সময়                    প্রতিপক্ষ

২১/০৫/১৮     ০১                  ০৩:০০                  বাংলাদেশ – নেপাল

২২/০৫/১৮   ০২                  ০৩:০০                   কিরগিজস্তান – তুর্কমেনিস্তান

                     ০৩                ০৪:০০                   মfলদ্বীপ- নেপাল

২৩/০৫/১৮    ০৪            ০৩:০০                       উজবেকিস্তান -তুর্কমেনিস্তান

                    ০৫           ০৪:০০                         বাংলাদেশ – মালদ্বীপ

২৪/০৫/১৮   ০৬            ০৩:০০                        কিরগিজস্তান – উজবেকিস্তান

২৫/০৫/১৮   ০৭             ০৩:০০                       A1 বনাম B2

                    ০৮              ০৪:০০                      A2 বনাম B1

২৭/০৫/১৮      ০৯             ১০:৩০                    পরাজিত-৭ বানাম পরাজিত-৮ (৩য়ও৪র্থ স্থান)

                    ১০                ০৩:০০                   ফাইনাল

নেপাল যাচ্ছে নারী ভলিবল দল

PM Cup Women’s Invitational Volleyball Championship-এ অংশ নিতে আগামীকাল শুক্রবার নেপাল যাবে বাংলাদেশ নারী ভলিবল দল।

মহিলা ভলিবল দলের ১৫ (পনেরো) সদস্য বিশিষ্ট একটি দল শুক্রবার দুপুর সাড়ে ১২ টায় ইউএস বাংলা এয়ারলাইনস যোগে নেপালের উদ্দেশ্যে যাত্রা করবে এবং আগামী ২১ ফেব্রুয়ারী দেশে ফিরে আসবে।

প্রিমিয়ার ভলিবলে তিতাস ‌ও পিডিবি যৌথ চ্যাম্পিয়ন

ক্রনী গ্রুপ ঢাকা মহানগরী প্রিমিয়ার বিভাগ ভলিবল লিগে তিতাস ক্লাব ২৬-২৪, ২১-২৫, ২৫-২২, ২৫-২৭ ‌ও ১৭-১৫ পয়েন্টে বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডকে হারিয়েছে। কিন্তু পয়েন্ট সমান হওয়ায় উভয় দলকে যৌথভাবে বিজীয় ঘোষণা করা হয়। রানার্স-আপ হয় বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ড এবং তৃতীয় স্থান অধিকার করে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)।

এবারের প্রিমিয়ার বিভাগে সেরা এ্যাটাকার হন, হরষিৎ বিশ্বাস (বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড), সেরা ডিফেন্ডার, সুজন আলী (তিতাস ক্লাব), সেরা সেটার, দান বাহাদুর-নেপাল (পানি উন্নয়ন বোর্ড) নির্বাাচিত হন।

খেলা শেষে দলগুলোকে পুরস্কৃত করেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বীরেন শিকদার। এ সময় উপস্থিত ছিলেন ভলিবল ফেডারেশনের সভাপতি আতিকুল ইসলাম, সহ-সভাপতি মঈনুল হোসেন বিপ্লব ‌ও সাধারন সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকু। মিডিয়া পার্টনার এটিএন বাংলা সমাপনী ও পুরষ্কার বিতরনী অনুষ্ঠান সরাসরি সম্প্রচার করে।

নড়াইলকে স্পোর্টস হাব বানানোর স্বপ্ন দেখি: মিকু

দেশের এক গন্ডগ্রাম থেকে উঠে এসেছেন জাতীয় পর্যায়ে। গ্রামের প্রতি অন্ত্যহীন ভালোবাসা এখনও অমলিন। দীর্ঘদিন ধরে পালন করছেন, দেশের শীর্ষ এক ক্রীড়া সংগঠন ভলিবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব। বাংলাদেশ অলিম্পিক এসোসিয়েশনের উপমহাসচিব হিসেবেও খেলাধুলার উন্নয়নে অবদান রাখছেন তিনি। বলছি, বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকুর কথা। নিজের জেলা নড়াইলকে নিয়ে স্বপ্ন দেখেন, এদেশের একটি ‘স্পোর্টস হাব’ বানানোর। এবার জানবো জাতীয় পুরস্কার পাওয়া প্রবীন এই সংগঠক আশিকুর রহমান মিকু’র সুখ-দু:খ ও ভবিষ্যত পরিকল্পনার কথা।

প্রশ্ন: ভলিবল ফেডারেশেনর সাধারণ সম্পাদক হ‌ওয়ার কঠিণ পথ কিভাবে মসৃণ করলেন?
আশিকুর রহমান মিকু:
ইচ্ছে ছিলো ফুটবলার হওয়ার। ছেলেবেলায় ফুটবলকেই করেছি ধ্যান-জ্ঞান। খুলনা লিগেও খেলেছি কিছু দিন। কিন্তু ১৯৮৪ সালে নড়াইল জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক হওয়ার পর, বেড়ে যায় দায়িত্ব। ১৯৯১ সালে আমি সদস্য হিসেবে বাংলাদেশ হ্যান্ডবল ফেডারেশনে যোগ দেই। ১৯৯৯ সালে ভলিবল ফেডারেশনের সহসভাপতি হিসেবে নির্বাচিত হই। পরবর্তীতে ২০০১ সালে বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশেনর নির্বাচনে আমাকে সাধারণ সম্পাদক হিসেবে বিজয়ী করা হয়। ঐ বছরই ঢাকা মহানগরী ক্লাব সমিতি-ফোরাম সেক্রেটারি হিসেবে নির্বাচিত হই। এভাবেই ভলিবলের সঙ্গে আমার যোগাযোগা।

প্রশ্ন: ভলিবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক হ‌ওয়ার পর আপনার কাজের ধারাটা কেমন ছিলো?
আশিকুর রহমান মিকু:
আগে থেকেই ভলিবল ফেডারেশন গুটিকয়েক লোকের হাতের পুতুল হয়ে ছিলো। সাধারণ সম্পাদক হয়েই এই জঞ্জাল সরাতে উঠে পড়ে লাগি। একটা সিন্ডিকেটের মধ্যে ঘোরপ্যাচে পড়ে গেছি। এটা কাটাতে আমার দশ বছর চলে গেছে। প্রকৃত অর্থে ছয় বছর আন্তরিকভাবে কাজ করার সুযোগ পেয়েছি। এ সময়ে আমরা ওয়ার্ল্ড ভলিবলের বাছাইয়ে দ্বিতীয় পর্বে উন্নীত হয়েছি। এবং আরো দুটো আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্ট আয়োজন করেছি। গতবার সেমিফাইনাল পর্যন্ত উঠেছিলাম। এবার অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করেছি। পাশাপাশি এসএ গেমসে সেমিতে গিয়ে হেরে গেছি। তবে এসএ গেমসে পরাজয়ের পর এই দুইটা টুর্নামেন্টের মধ্যদিয়ে আমাদের দলটা দাঁড়িয়ে যায়। এবং আমরা মনেকরি ভলিবলের গতানুগতিক যে ধারা কিছুটা হলেও আমরা এই ধারাটা পরিবর্তন করতে সক্ষম হই।

প্রশ্ন: পুরুষ ভলিবলে সাফল্য পেলে‌ও নারীদের নিয়ে তো তেমন কোনো কাজ হচ্ছে না?
আশিকুর রহমান মিকু:
এর আগে মহিলা ভলিবল টোটালি বন্ধ ছিলো। জাগ্রত করার জন্য গতমাসে দেড়মাসের কোচিং কর্মসুচি শেষ করেছি। নতুন মহিলা দলটিকে আমরা ইন্ডিয়ার কয়েকটি প্রদেশের সঙ্গে খেলা আয়োজনের চেষ্টা করছি। ভারতের চারটি প্রদেশের সঙ্গে কথাবার্তা হয়েছে। খুব শিগগির, এই ডিসেম্বর মাসের শেষ দিকে আবার‌ও মহিলা টিমকে কোচিংয়ের আওতায় আনবো। এবং জানুয়ারির শেষের দিকে তারা ভারত সফরে যাবে যাবে। নতুন এই দলটিকে ইন্টারন্যাশনাল এক্সপোজার দেয়া আর বিদেশে খেলিয়ে তাদের শক্তি যাচাই করা।

প্রশ্ন: বঙ্গবন্ধু কাপ ভলিবল নিয়ে নতুন কোনো ভাবনা?
আশিকুর রহমান মিকু:
টানা দুইবার আমরা বঙ্গবন্ধু কাপ ভলিবল টুর্ণামেন্ট আয়োজন করলাম। গতবার ছিলো সেন্ট্রাল জোনের খেলা। এটা এবার উন্মুক্ত ভলিবল আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্ট করার চেষ্টা হচ্ছে। আশা করছি ৮-১০ দেশ এবারের প্রতিযোগিতায় অংশ নেবে। আমাদের টার্গেট ছিলো ফেব্রুয়ারি আয়োজনের। কিন্তু ফেব্রুয়ারিতে সম্ভবত পারবো না। তাই মার্চের শেষের দিকে এটা গড়াবে। সবকিছু মিলিয়ে অন্যান্যবারের তুলনায় ভিন্ন ধরণের হবে এবারের প্রতিযোগিতা।

প্রশ্ন: সংগঠক হিসেবে নিজেকে কিভাবে মূল্যায়ন করেন?
আশিকুর রহমান মিকু:
ভালো-মন্দ মিলিয়ে একেবারে কম কিছু পাইনি। সংগঠক হিসেবে অনেক কিছুই পেয়েছি। তবে ভলিবলকে নিয়ে স্বপ্ন আছে আরো ভালো স্থানে নিয়ে যা‌ওয়ার। এদেশে যতগুলো বাংলাদেশ গেমস হয়েছে তারমধ্যে গত ২০১৩ সালে যে গেমস হয়েছে আমার মনেহয় সেটা সবচেয়ে উত্তম এবং সর্বাপেক্ষা সফল আয়োজন হয়েছে গত বাংলাদেশ গেমস। সেসময় আমি বাংলাদেশ অলিম্পিক এসোসিয়েশনের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছিলাম। তবে আমি মনেকরি স্পোর্টসটাকে এদেশে যদি একটি সম্মানজনক জায়গায় আমরা নিয়ে যেতে পারি। তবে আমাদের শ্রম, কষ্টর সার্থকতা আসবে। যেহেতু রক্ত-মাংসে স্পোর্টস-এই স্পোর্টসটিকে যদি সম্মনজনক জায়গায় নিয়ে যেতে পারি তাহলে মনে করব আমাদেরকে নিয়ে যে নিন্দা, যে সমালোচনা করা হয় তার সার্থকতা এসেছে।

প্রশ্ন: একজন সংগঠক হিসেবে আপনার কোনো ইচ্ছা বা স্বপ্নের কথা বলুন?
আশিকুর রহমান মিকু:
আমি স্বপ্ন দেখি এদেশের মডেল জেলা হবে নড়াইল জেলা। আমি ইতোমধ্যে কিছু কাজ শুরু করেছি। আমার জেলায় কোনো মাঠ পরিত্যাক্ত অবস্থায় নেই। সব মাঠেই এখন খেলাধুলা হয়। সেই লক্ষ্যে আমার কিছু পরিকল্পনা রয়েছে। যেখান থেকে আমার উত্থান সেখান থেকে আমার নতুন করে এই দেশের মডেল জেলা রুপে গড়ে তুলব। যেটা সবাই অনুকরণ করবে। এখান থেকে বিভিন্ন খেলার ভালো মানের খেলোয়াড় তৈরি হবে। আর সবাই খেলোয়াড় পা‌ওয়ার জন্য নড়াইল আসবে। সেই চেষ্টাই করছি আমি। কারণ উদ্যোগ নিলে কোনো উদ্যোগই কিন্তু বিফলে যায়না।

ওয়ালটন-ডিআরইউ ভলিবলে রেডিও টুডে চ্যাম্পিয়ন

প্রথমবারের মতো আয়োজিত ওয়ালটন-ডিআরইউ মিডিয়া কাপ ভলিবল টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে রেডিও টুডে। রানার্স-আপ হয়েছে জিটিভি।

আজ শনিবার জাতীয় ভলিবল স্টেডিয়ামে প্রতিদ্বন্দ্বীতাপূর্ণ ফাইনালে রেডিও টুডে ২৫-১৯ ও ২৫-১৮ পয়েন্টে জিটিভিকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হয়। চ্যাম্পিয়ন দল রেডিও টুডে ট্রফি ও ৩০ হাজার টাকা আর রানার্স-আপ দল জিটিভি ট্রফি ও ২০ হাজার টাকা প্রাইজমানি দেয়া হয়।

টুর্নামেন্টের সেরা আক্রমণাত্মক খেলোয়াড় নির্বাচিত হন রেডিও টুডের মোসকায়েত মাশরেক, টুর্নামেন্টের সেরা সেটালার নির্বাচিত হয়েছেন রেডিও টুডের মাকসুদ-উন-নবী এবং টুর্নামেন্টের সেরা ডিফেন্ডার নির্বাচিত হন জিটিভির মেহ্দী আজাদ মাসুম। ফেয়ার প্লে ট্রফি লাভ করেছে বিডিনিউজ ২৪ ডটকম।

ফাইনাল খেলা শেষে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে উভয় দলের হাতে ট্রফি তুলে দেন আওয়ামী লীগের ক্রীড়া সম্পাদক হারুনুর রশিদ। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ অলম্পিক এসোসিয়েশনের উপ-মহাসচিব আশিকুর রহমান মিকু ও উপ-মহাসচিব আসাদুজ্জামান কোহিনুর এবং পৃষ্ঠপোষক প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন গ্রুপের অপারেটিভ ডিরেক্টর এফএম ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন)।

ওয়ালটন-ডিআরইউ মিডিয়া কাপ ভলিবল শুরু

ওয়ালটন-ডিআরইউ মিডিয়া কাপ ভলিবল টুর্নামেন্ট শুরু হলো আজ। পল্টনের জাতীয় ভলিবল স্টেডিয়ামে ছয়দিন ব্যাপী এই প্রতিযোগিতার উদ্বাধন করেন পৃষ্ঠপোষক প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন গ্রুপের অপারেটিভ ডিরেক্টর এফএম ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন)। এ সময় ভলিবল ফেডারেশনের যুগ্ম সম্পাদক ফজলে রাব্বী, ডিআরইউ সভাপতি সাখাওয়াত হোসেন বাদশা, সাধারণ সম্পাদক মুরসালিন নোমানী ‌ও ক্রীড়া সম্পাদক মজিবুর রহমান উপস্থিত ছিলেন।

উদ্বোধনী দিনে ৮টি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হয়। প্রথম ম্যাচে রেডিও টুডে ২৫-১০ পয়েন্টে আজকালের খবরকে, দ্বিতীয় ম্যাচে বিডিনিউজ২৪ ডটকম ২৫-১৭ পয়েন্টে আমাদের সময়কে, তৃতীয় ম্যাচে আরটিভি তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বীতাপূর্ণ ম্যাচে ২৭-২৫ পয়েন্টে বাসসকে পরাজিত করে।

চতুর্থ ম্যাচে ডেইলি সান ২৫-২৩ পয়েন্টে এটিএন বাংলাকে, পঞ্চম ম্যাচে বাংলাদেশের খবর তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বীতাপূর্ণ খেলায় ২৬-২৪ পয়েন্টে এসএটিভিকে, পরের ম্যাচে জনকন্ঠ, খোলা কাগজকে হারায়। দিনের শেষ ম্যাচে জাগোনিউজ ২৫-৮ পয়েন্টের ব্যবধানে সংগ্রামকে হারায়।

প্রথমবারের মতো আয়োজিত ওয়ালটন-ডিআরইউ মিডিয়া কাপ ভলিবল প্রতিযোগিতায় ২৪টি জাতীয় দৈনিক, সংবাদ সংস্থা, অনলাইন মিডিয়া এবং স্যাটেলাইট চ্যানেল অংশ নিচ্ছে। টুর্নামেন্টের চ্যাম্পিয়ন দল ট্রফি ছাড়াও নগদ ৩০ হাজার টাকা এবং রানার্স আপ দল ট্রফি ছাড়াও নগদ ২০ হাজার টাকা অর্থ পুরস্কার পাবে।

আগামীকাল থেকে শুরু ডিআরইউ ভলিবল টুর্নামেন্ট

২৪টি মিডিয়া হাউজ নিয়ে আগামীকাল থেকে শুরু হবে ওয়ালটন-ডিআরইউ মিডিয়া কাপ ভলিবল টুর্নামেন্ট। পল্টনের ভলিবল স্টেডিয়ামে, সকাল নয়টা থেকে শুরু হবে প্রতিযোগিতা।

এ উপলক্ষ্যে ডিআরইউ কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, চ্যাম্পিয়ন দল ট্রফিসহ ৩০ হাজার টাকা এবং রানার্সআপ দল ২০ হাজার টাকা অর্থ পুরস্কার পাবে। এ সময় উপস্থিত ছিলেন ডিআরইউ সভাপতি সাখাওয়াত হোসেন বাদশা, সাধারণ সম্পাদক মুরসালিন নোমানী, ক্রীড়া সম্পাদক মজিবুর রহমান, স্পন্সর প্রতিষ্ঠান ওয়ালটনের অপারেটিভ ডিরেক্টর ইকবাল বিন আনোয়ার এবং ভলিবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকু।

আগামীকাল থেকে শুরু ভলিবল লিগ

আগামীকাল সোমবার থেকে শুরু হচ্ছে ‘ক্রনী গ্রুপ ঢাকা মহানগরী প্রিমিয়ার বিভাগ, প্রথম ও দ্বিতীয় বিভাগ ভলিবল লীগ।’ প্রিমিয়ার বিভাগে ১০টি, প্রথম ও দ্বিতীয় বিভাগে ৯টি করে দল অংশ নিচ্ছে। পল্টনের ভলিবল স্টেডিয়ামে, আগামীকাল বিকেলে প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করবেন জাতীয় সংসদেও ডেপুটি স্পীকার এডভোকেট ফজলে রাব্বি মিয়া।

এ উপলক্ষে আজ রবিবার দুপুরে বিওএ ভবনে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন ভলিবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকু। এ সময় উপস্থিত ছিলেন ফেডারেশনের যুগ্ম সম্পাক এ্যাডঃ ফজলে রাব্বি বাবুল ও আজিজুর রহমান, টূর্ণামেন্ট কমিটির চেয়ারম্যান তাবিউর রহমান পালোয়ান ও প্রিমিয়ার লিগ কমিটির সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম।

প্রীতি ভলিবলে অংশ নিতে নেপাল যাচ্ছে বাংলাদেশ দল

নেপাল ভলিবল এসোসিয়েশনের উদ্যোগ আগামী ২৭ থেকে ৩১ আগস্ট তারিখ পর্যন্ত নেপাল ও বাংলাদেশ জাতীয় ভলিবল দলের মধ্যে প্রীতি ভলিবল প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হবে।

এই উপলক্ষে আজ শনিবার দুপুরে অলিম্পিক ভবনের ডাচ-বাংলা ব্যাংক অডিটোরিয়ামে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন পৃষ্ঠপোষক প্রতিষ্ঠান তমা গ্রুপে চেয়ারম্যান এবং বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের সহ-সভাপতি আতাউর রহমান ভুইয়া (মানিক)। এছাড়াও ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকু, যুগ্ম-সম্পাদক ফজলে রাব্বি বাবুল ও আজিজুর রহমান, কোষাধ্যক্ষ অসিম সাহা উপস্থিত ছিলেন।

প্রীতি ভলিবল প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে ২১ সদস্যের বাংলাদেশ ভলিবল দল আগামীকাল রোববার দুপুর ২টায় ঢাকা ছাড়বে। অংশ গ্রহণ শেষে আগামী ৩১ আগস্ট দেশে ফিরে আসবে।

পুরুষ বিভাগে পিডিবি ও নারী বিভাগে আনসার চ্যাম্পিয়ন

জাতীয় ভলিবল প্রতিযোগিতায় পুরুষ বিভাগে বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড ও নারী বিভাগে বাংলাদেশ আনসার চ্যাম্পিয়ন হয়েছে।
মিরপুরের শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে, পুরুষ বিভাগের ফাইনালে বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড ৩-১ সেটে বাংলাদেশ সেনা বাহিনীকে পরাজিত করে। তারা জয় পায় ১২-২৫, ২৫-২০, ২৫-২১ ও ২৫-২৩ পয়েন্টে। স্থান নির্ধারনী খেলায় পুরুষ বিভাগে বাংলাদেশ নৌ বাহিনী ৩-১ সেটে তিতাস গ্যাসকে পরাজিত করে তৃতীয় হয়।
এদিকে, মহিলা বিভাগের ফাইনালে বাংলাদেশ আনসার ৩-০ সেটে বিজেএমসিকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হয়। তারা জেতে ২৫-১৬, ২৫-২০, ২৫-২২ পয়েন্টে। মহিলা বিভাগে রাজশাহী জেলা ৩-১ সেটে চট্টগ্রাম জেলাকে পরাজিত করে প্রতিযোগিতার ৩য় স্থান অধিকার করে।
ফাইনাল খেলা শেষে বিজয়ী ও বিজিত দলকে পুরস্কৃত করেন কৃষি মন্ত্রী বেগম মতিয়া চৌধুরী। এ সময় উপস্থিত ছিলেন স্পন্সর প্রতিষ্ঠান শাহজালাল ইসলামী ব্যাংকের এমডি ও সিইও ফরমান আর চৌধুরী, ভলিবল ফেডারেশনের সহ-সভাপতি আতাউর রহমান ভুইয়া (মানিক) ও সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকু।

জাতীয় ভলিবল প্রতিযোগিতা শুরু

শাহজালাল ইসলামী ব্যাংক জাতীয় ভলিবল প্রতিযোগিতার উদ্বোধনী দিনে পুরুষ বিভাগে জিতেছে সাতক্ষীরা জেলা ও বিজিবি। এবং মহিলা বিভাগে জয় পেয়েছে রাজশাহী জেলা ও বিজেএমসি। মিরপুর ইনডোর স্টেডিয়ামে, পুরুষদের বিভাগে সাতক্ষীরা জেলা ৩-১ সেটে পাবনা জেলাকে এবং বিজিবি ৩-০ সেটে ভোলা জেলাকে পরাজিত করে। এদিকে, মহিলা বিভাগে রাজশাহী জেলা ৩-১ সেটে খুলনা জেলাকে এবং বিজেএমসি ৩-০ সেটে পবনা জেলাকে পরাজিত করে।
এর আগে, প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বীরেন শিকদার। এ সময়
উপস্থিত ছিলেন স্পন্সর প্রতিষ্ঠান শাহ্্জালাল ইসলামী ব্যাংকের এমডি ও সিইও ফরমান আর চৌধুরী, ভলিবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকু ও যুগ্ম সম্পাদক এ্যাডঃ ফজলে রাব্বি বাবুল।

জাতীয় ভলিবল সোমবার শুরু

দশটি করে পুরুষ ও মহিলা দল নিয়ে কাল কোর্টে গড়াচ্ছে ২৮তম জাতীয় পুরুষ ও ২৩তম জাতীয় মহিলা ভলিবল প্রতিযোগিতা। মিরপুর শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠেয় আট দিনব্যাপী টুর্নামেন্টে অংশ নেয়া পুরুষ দলগুলো হলো- বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড, তিতাস কাব, বাংলাদেশ সেনা বাহিনী, বাংলাদেশ নৌ বাহিনী, বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি), সাতক্ষীরা জেলা, ভোলা জেলা, পাবনা জেলা, খুলনা জেলা ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় এবং মহিলা দলগুলো হলো- বাংলাদেশ জুট মিলস কর্পোরেশন, বাংলাদেশ আনসার ও ভিডিপি, পাবনা, নড়াইল, রাজবাড়ী, রাজশাহী, চট্টগ্রাম, খুলনা, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ও বাংলাদেশ পুলিশ। আগামীকাল বিকেল তিনটায় প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করবেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বীরেন শিকদার এমপি। সমাপনী দিনে প্রধান অতিথি থাকবেন সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।
প্রতিযোগিতা উপলক্ষে আজ বাংলাদেশ অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশনের (বিওএ) ডাচ-বাংলা অডিটরিয়ামে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকু। এ সময় ভলিবাল ফেডারেশনের সহ ষবাপতি মোস্তাফা কামাল, টুর্নামেন্ট কমিটির সচিব অ্যাডভোকেট ফজলে রাব্বি বাবুল ও পৃষ্ঠপোষক শাহজালাল ইসলামি ব্যাংক লিমিটেডের সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট সামছুদ্দোহা সিমু উপস্থিত ছিলেন।
জাতীয় আসরের চ্যাম্পিয়ন দল তিরিশ হাজার, রানার্স-আপ দল বিশ হাজার এবং তৃতীয় স্থানের দল দশ হাজার টাকা অর্থ পুরস্কার পাবে। প্রতিদলের খেলোয়াড়দের আসা-যাওয়া এবং থাকা খাওয়ার ব্যবস্থা করছে ফেডারেশন। এছাড়া প্রতি পজিশনে সেরা খেলোয়াড়দের ট্রফির পাশাপাশি অর্থ পুরস্কারও প্রদান করা হবে।

কক্সবাজারে মহিলা ভলিবল প্রশিক্ষণ

কক্সবাজার জেলা মহিলা ক্রীড়া সংস্থার আয়োজনে ২০ দিনব্যাপি ভলিবল প্রশিক্ষণ শুরু হয়েছে। এতে বিভিন্ন স্কুলের ৩০ জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করছেন। প্রশিক্ষণ ক্যাম্প সৈকত বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে চলছে। প্রশিক্ষণ কার্যক্রম দেখতে যান জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক অনুপ বড়–য়া অপু।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন জেলা মহিলা ক্রীড়া সংস্থার সহ সভাপতি শামসুন নাহার, সাধারণ সম্পাদক গোপা সেন, সহ সাধারণ সম্পাদক খালেদা জেসমিন, জেলা ক্রীড়া সংস্থা সদস্য প্রভাষক জসিম উদ্দিন, আলী রেজা তসলিম, কক্সবাজার উশু একাডেমির সভাপতি একেএম জাবেদ হোসেন, জেলা মহিলা ক্রীড়া সংস্থার সদস্য শামিনা কাসেম পান্না, প্রশিক্ষণ কার্যক্রম সমন্বয়কারি রওশন আকতার ও সুফিয়া আক্তার প্রমুখ। প্রশিক্ষণ কার্যক্রমে কোচ ও সহকারি কোচ হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন কাশেম কুতুবি ও সৈয়দ হোসেন আশেক। ১লা মে শুরু হওয়া এই প্রশিক্ষণ কার্যক্রম ২০ মে পর্যন্ত চলবে।

শেষ হলো দুইদিনের বাছাই কার্যক্রম

শেষ হয়েছে জাতীয় মহিলা ভলিবল দল গঠণের বাছাই কার্যক্রম। পল্টনের ভলিবল স্টেডিয়ামে দুই দিনব্যাপী এই উন্মুক্ত বাছাই কার্যক্রমে সারাদেশের বিভিন্ন জেলা ক্রীড়া সংস্থা, বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থা, স্কুল, কলেজ, বিশ^বিদ্যালয়, ও বিভিন্ন সার্ভিসেস দলের ৮৫ জন খেলোয়াড় অংশ নেন। এদের মধ্য থেকে বয়স, উচ্চতা ও মেধানুযায়ী ২৫ জনকে দীর্ঘ মেয়াদী আবাসিক প্রশিণ ক্যাম্পের জন্য প্রাথমিকভাবে বাছাই করা হয়েছে। এই ২৫ জনের মধ্য থেকে আগামীতে আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতায় অংশ গ্রহনের জন্য জাতীয় মহিলা ভলিবল দল গঠন করা হবে। বাছাই কার্যক্রমের প্রথম দিনে ৮৫ জনের মধ্য থেকে ৩০ জনকে বাছাই করা হয়েছিল। সেখান থেকে শেষ দিনে চূড়ান্তভাবে ২৫ জনকে বাছাই করা হয়।
বাছাই কার্যকম পরিচালনা করেন সিলেকশন কমিটির চেয়ারম্যান ও ফেডারেশনের সহ-সভাপতি মোস্তাফা কামাল, কোচিং কমিটির সম্পাদক গোলাম রসুল খান মেহেদী, ফেডারেশনের যুগ্ম সম্পাদক আজিজুর রহমান, কোষাধ্য সিরাজুল ইসলাম ও ফেডারেশনের সদস্য কাজী আব্দুল হান্নান।

মহিলা ভলিবল দল গঠনে বাছাই শুরু

জাতীয় মহিলা ভলিবল দল গঠনের জন্য এবং দীর্ঘ মেয়াদী আবাসিক প্রশিক্ষণ ক্যাম্প পরিচালনার জন্য রবিবার থেকে দুই দিনের বাছাই কার্যক্রম শুরু করেছে বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশন। পল্টনের ভলিবল স্টেডিয়ামে মহিলা ভলিবল খেলোয়াড়দের উন্মুক্ত বাছাই ও প্রশিক্ষণ কার্যক্রমের উদ্বোধন করা হয়। প্রধান অতিথি হিসেবে বাছাই কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন ইফাদ গ্রুপের চেয়ারম্যান ইফতেখার আহমেদ টিপু। এ সময় ইফাদ গ্রুপের পরিচালক তাসফিন আহমেদ, মহিলা ভলিবল কমিটির চেয়ারম্যান জান্নাত আরা, ফেডারেশনের সহসভাপতি মোস্তফা কামাল, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আজিজুর রহমান, কোষাধ্যক্ষ সিরাজুল ইসলাম ও মহিলা উইংয়ের সেক্রেটারী নিবেদিতা দাস উপস্থিত ছিলেন।
মহিলা জাতীয় দল গঠনের লক্ষ্যে বাছাই কার্যক্রমে সারাদেশের বিভিন্ন জেলা ক্রীড়া সংস্থা, বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থা, স্কুল, কলেজ, বিশ^বিদ্যালয় ও বিভিন্ন সার্ভিসেস দলের ৮৫ জন খেলোয়াড় অংশ নেন।
প্রধান অতিথি ইফাদ গ্রুপের চেয়ারম্যান ইফতেখার আহমেদ টিপু এ সময় বলেন, দেশের মহিলা ভলিবলকে এগিয়ে নেয়ার জন্য সব ধরনের সহযোগিতা করা হবে। তিনি আরো বলেন, এ বাছাই কার্যক্রমে চূুড়ান্ত ভাবে যে ১৮ জন নারী খেলোয়াড় দীর্ঘ মেয়াদী প্রশিক্ষণ ক্যাম্পে সুযোগ পাবে তাদের প্রত্যেককে ইফাদ গ্রুপের পক্ষ থেকে পাঁচ হাজার টাকা করে উৎসাহ ভাতা দেয়া হবে। আগামীকাল সোমবার (৮মে) সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত বাছাই কার্যক্রমের মধ্য দিয়ে শেষ হবে জাতীয় মহিলা ভলিবল দল গঠনের কার্যক্রম।

সার্ভিসেস অঞ্চলের বাছাই পর্বে সেনাবাহিনী চ্যাম্পিয়ন

জাতীয় ভলিবল প্রতিযোগিতায় সার্ভিসেস অঞ্চলের বাছাই পর্বের খেলায় চ্যাম্পিয়ন হয়েছে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী এবং রানার্সআপ বাংলাদেশ নৌবাহিনী। চারদিনের এই প্রতিযোগিতার আজ ছিলো শেষ দিন। সার্ভিসেস অঞ্চলের বাছাই পর্বের চুড়ান্ত খেলায় বাংলাদেশ সেনা বাহিনী ২৫-১৬, ২৭-২৫ ও ২৫-১৯ পয়েন্টে বাংলাদেশ নৌ বাহিনীকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হয়। খেলা শেষে চ্যাম্পিয়ন দল বাংলাদেশ সেনা বাহিনী এবং রার্নাস-আপ দল বাংলাদেশ নৌ বাহিনীকে পুরস্কৃত করেন নীপা গ্র“প ও হোটেল সী-উত্তরার ব্যবস্থাপনা পরিচালক খসরু চৌধুরী। এসময় উপস্থিত ছিলেন ফেডারেশনের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও টূর্ণামেন্ট কমিটির সম্পাদক এ্যাড. ফজলে রাব্বী বাবুল, সহ-সভাপতি মোস্তাফা কামাল, যুগ্ম সম্পাদক আজিজুর রহমান ও কোষাধ্য সিরাজুল ইসলাম। সার্ভিসেস অঞ্চলের চ্যাম্পিয়ন ও রানার্সআপ দুইটি দলই চুড়ান্ত পর্বের খেলায় অংশ নেবে।

ঢাকা মহানগরী মহিলা ভলিবলের সেমিফাইনাল সোমবার

বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশন আয়োজিত  ঢাকা মহানগরী উন্মুক্ত মহিলা ভলিবল প্রতিযোগিতার সেমিফাইনাল সোমবার পল্টন ময়দানস্থ ভলিবল স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে। প্রথম সেমিফাইনাল খেলবে ওয়ারী ক্লাব ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এবং দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মুখোমুখি হবে শাহবাগ স্পোটিং ক্লাব ও  স্পার্কলিং এন্ড্রোমিডা ক্লাব।

রোববার প্রতিযোগিতার দ্বিতীয় দিনে অনুষ্ঠিত প্রথম ম্যাচে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ২-১ সেটে ভিকারুননিসা নুন স্কুলকে, দ্বিতীয় ম্যাচে স্পার্কলিং এমন্ড্রোমিডা ক্লাব ২-০ সেটে বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালসকে, তৃতীয় ম্যাচে ওয়ারি ক্লাব ২-০ সেটে ইউনাইটেড ক্লাবকে এবং শেষ ম্যাচে শাহবাগ স্পোর্টিং ক্লাব ২-০ সেটে ভিকারুননিসা নুন স্কুলকে পরাজিত করে।

আলী নগর মিতালি সংঘ চ্যাম্পিয়ন

গাজীপুরের আনোয়ারা সাঈদ স্মৃতি ভলিবল টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে আলী নগর মিতালী সংঘ। শুক্রবার দক্ষিণগাঁওয়ের মরিয়ম ভিলেজের আনোয়ারা সাঈদ স্মৃতি মাঠে অনুষ্ঠিত ফাইনালে কিস্তিবাজদি বাবলু স্মৃৃতিসংসদকে ১০০-৯০ পয়েন্টে হারিয়েছে আলী নগর মিতালী সংঘ।

ক্রীড়া সংগঠক আলম আহমেদের আর্থিক পৃষ্ঠপোষকতায় ২ মাসব্যপী চলা এই টুর্নামেন্টে ৮টি দল অংশগ্রহণ করে। ফাইনাল শেষে প্রধান অতিথি হিসেবে বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন সাবেক সংসদ সদস্য এবং বাংলাদেশের প্রথম প্রধানমন্ত্রী তাজউদ্দিন আহমেদের মেয়ে মাহজাবিন আহমেদ মিমি।

পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানের অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আয়োজক কমিটির সভাপতি শামছুল আলম চৌধুরী এবং মরিয়ম গ্রুপের কর্ণধার মরিয়ম হেলাল। হাজার দেড়েক দর্শক খেলাটি উপভোগ করেন।

‘এটা শুধু আমাদের জয় নয়, পুরো দেশেরই জয়’

ভলিবলের আন্তর্জাতিক আসরে প্রথমবার শিরোপা জিতেছে বাংলাদেশ। বঙ্গবন্ধু সিনিয়র মেনস সেন্ট্রাল জোন আন্তর্জাতিক ভলিবল টুর্নামেন্টে ট্রফি হাতে উচ্ছ্বাসটা তাই হলো বাঁধনহারা।
জাবির, রাশেদ, হরসিত, সোহেল, মাসুদরা জয়ের পর সোহওরায়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামের টার্ফে দাপিয়ে বেড়ালেন। সব আনুষ্ঠানিকতা শেষে গানের সঙ্গে খেলোয়াড়রা নাচানাচি করলেন গলা জড়িয়ে।
লিগ পর্বে যেই কিরগিজস্তানের বিপক্ষে ৩-২ সেটে হেরে গিয়েছিল জাবিররা সেই কিরগিজদের বিপক্ষে ফাইনালে সরাসরি সেটে (৩-০) জয় তো বিরাট প্রাপ্তি। এমন উচ্ছ্বাস তো হবেই।
মঙ্গলবার শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচ শেষে বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক সাইদ আল জাবির বললেন, ‘এটা শুধু আমাদের জয় নয়, পুরো দেশেরই জয়। কেননা, ভলিবলে এর আগে কখনও আমাদের কোনো আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টে সাফল্য আসেনি।’
ঘরের মাঠে প্রথম আন্তর্জাতিক শিরোপা জিততে টুর্নামেন্টের শুরু থেকেই মরিয়া ছিল বাংলাদেশ। যার প্রতিফলন দেখা গেছে কোর্টে। লিগ পর্বের তিন ম্যাচেই বড় জয় তুলে ফাইনালে ওঠে স্বাগতিকরা।
ফাইনালে কিরগিজস্তানকে হারানোর ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী ছিল গোটা দল, ‘শুরু থেকে আমরা বলে আসছিলাম, আমাদের লক্ষ্য ফাইনাল খেলা। গতকালও অনেকে জানতে চেয়েছেন, কি অবস্থা? কি লক্ষ্য? দেশের মাটিতে খেলা, দর্শকও আমাদের পক্ষে ছিল। তো আমাদের একটাই লক্ষ্য ছিল শিরোপা জেতা। আমরা অনেক অনেক চেষ্টা করেছি; জিতেছি। এ জয়ের আনন্দ আসলে ভাষায় প্রকাশ করা যাবে না।’
ভলিবলের বিশ্বকাপ-বাছাইয়ে কিরগিজস্তানের কাছে হেরেছিল বাংলাদেশ। এবার ঘরের মাটিতে লিগ পর্বে তাদের বিপক্ষে হারের পর ফাইনালে নামার আগে প্রতিপক্ষ নিয়ে পর্যালোচনা হয়েছে বলে জানান জাবির, ওরা (কিরগিজস্তান) রাশিয়ান বেল্টের দল, ওদের ভলিবল সম্পর্কে আমরা বেশি কিছু জানতাম না। আমরা সবসময় সাউথ এশিয়ার মধ্যে থাকি। এই টুর্নামেন্ট দিয়ে আমরা অন্য দেশগুলোর সঙ্গে খেলেছি, চিনেছি। গত ম্যাচে ওদের কাছে আমরা হেরেছিলাম। হারের পর ম্যাচটি আমরা পর্যালোচনা করেছি। দেশের মাটিতে জিতবো-এ আশা নিয়ে আজ কোর্টে নেমেছিলাম।’
আন্তর্জাতিক আসরে সাফল্যের পর ক্রিকেট-ফুটবলের মতো ভলিবলেও নতুন পরিকল্পনা নেওয়া হবে বলে আশা প্রকাশ করেন বাংলাদেশ দলের এ অধিনায়ক। আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টে আরও বেশি অংশগ্রহণ বাড়ানোর তাগিদ দেন তিনি, ‘টুর্নামেন্টের মাঝে দীর্ঘ বিরতি থাকলে আসলে দল ঠিক থাকে না। ক্রিকেট-ফুটবল এগিয়ে গেছে। কেননা তাদের পরিকল্পনা আছে, বর্ষপঞ্জি আছে। আশা করি, এবার আমাদেরও একটা পরিকল্পনা এবং বর্ষপঞ্জি থাকবে।’
চ্যাম্পিয়ন হওয়ায় বাংলাদেশ দল পেয়েছে ১৫০০ ডলার। এছাড়া বাংলাদেশ দলকে ১০ লাখ টাকা পুরস্কার দিয়েছে আলিফ গ্রুপ। মিরপুরের শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে আসরের ফাইনালে কিরগিজস্তানকে ৩-০ সেটে উড়িয়ে দেয় বাংলাদেশ। ২৫-২২ পয়েন্টে প্রথম সেট জিতে নেয় বাংলাদেশ। হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের পর বাংলাদশে দ্বিতীয় সেট জেতে ২৫-২৩ পয়েন্টে।
তৃতীয় সেটে বাংলাদেশ যখন ৭-৬ পয়েন্টে এগিয়ে তখন ইনজুরিতে পড়েন কিরগিজস্তানের খেলোয়াড় তকতয়েভ। তিনি আর মাঠ নামতে না পারায় খেলোয়াড় সংকট দেখা দেয় কিরগিজ শিবিরে। কেননা, আগের দিন ইনজুরিতে পড়েন দলের আরও দুইজন খেলোয়াড়। আটজন খেলোয়াড় নিয়ে বাংলাদেশে আসা কিরগিজদের ফিট খেলোয়াড়েরর সংখ্যা নামে পাঁচে। ভলিবলের আইনে পাঁচজন খেলোয়াড় নিয়ে ম্যাচ না হওয়ায় তৃতীয় সেটে জয়ী ঘোষণা করা হয় বাংলাদেশকে। তৃতীয়বারের মতো ম্যাচের সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হয়েছেন সাইদ আল জাবির। আর টুর্নামেন্ট সেরা হওয়ার গৌরব অর্জন করেছেন হরসিত কুমার বিশ্বাস।

নেপালকে হারিয়ে তৃতীয় স্থান পেল মালদ্বীপ

নেপালকে হারিয়ে বঙ্গবন্ধু সিনিয়র মেনস সেন্ট্রাল জোন আন্তর্জাতিক ভলিবল টুর্নামেন্টে তৃতীয় স্থান অর্জন করেছে মালদ্বীপ। মঙ্গলবার (২৭ ডিসেম্বর) মিরপুরের শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে আধিপত্য দেখিয়ে ৩-১ সেটে জয় তুলে নেয় মালদ্বীপ টিম।
২৫-২২ পয়েন্টে প্রথম সেট জিতে লিড নেয় মালদ্বীপ। দ্বিতীয় সেটে আধিপত্য দেখিয়ে ২৫-১৪ পয়েন্টে ২-০ ব্যবধানে লিড নেয় তারা। সরাসরি সেটে জয়ের সুযোগ থাকলেও তৃতীয় সেট ২৫-১৯ পয়েন্টে হেরে বসে মালদ্বীপ।
ঘুরে দাঁড়ালেও শেষ পর্যন্ত হতাশাই সঙ্গী হয় নেপালের। ২৫-২১ পয়েন্টে চতুর্থ সেট জিতে টুর্নামেন্টে তৃতীয় স্থান নিশ্চিত করে মালদ্বীপ। পাঁচ দলের আসরের ফাইনালে স্বাগতিক বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ কিরগিজস্তান।

বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবলে চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ

কিরগিজস্তানকে হারিয়ে বঙ্গবন্ধু সিনিয়র মেনস সেন্ট্রাল জোন আন্তর্জাতিক ভলিবল টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে স্বাগতিক বাংলাদেশ। মিরপুরের শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে আসরের ফাইনালে কিরগিজস্তানকে ৩-০ সেটে উড়িয়ে দেয় বাংলাদেশ।
২৫-২২ পয়েন্টে প্রথম সেট জিতে নেয় বাংলাদেশ। হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের পর বাংলাদেশ দ্বিতীয় সেট জেতে ২৫-২৩ পয়েন্টে। তৃতীয় সেটে বাংলাদেশ যখন ৭-৬ পয়েন্টে এগিয়ে তখনই ইনজুরিতে পড়েন কিরজিগস্তানের খেলোয়াড় তকতয়েভ।
তিনি আর মাঠ নামতে না পারায় খেলোয়াড় সংকট দেখা দেয় কিরগিজ শিবিরে। কেননা আগের দিন ইনজুরিতে পড়েন দলের আরও দুইজন খেলোয়াড়। আটজন খেলোয়াড় নিয়ে বাংলাদেশে আসা কিরগিজদের ফিট খেলোয়াড়ের সংখ্যা নামে পাঁচে। ভলিবলের আইনে পাঁচজন খেলোয়াড় নিয়ে ম্যাচ খেলার নিয়ম না থাকায় তৃতীয় সেটে জয়ী ঘোষণা করা হয় বাংলাদেশকে।
এর আগে তৃতীয় স্থান নির্ধারণী ম্যাচে নেপালকে ৩-১ সেটে হারায় মালদ্বীপ। ২৫-২২ পয়েন্টে প্রথম সেট জিতে লিড নেয় মালদ্বীপ। দ্বিতীয় সেটে আধিপত্য দেখিয়ে ২৫-১৪ পয়েন্টে জিতে ২-০ তে লিড নেয় তারা। সরাসরি সেটে জয়ের সুযোগ থাকলেও তৃতীয় সেট ২৫-১৯ পয়েন্টে হেরে বসে মালদ্বীপ। ম্যাচে জয় তুলে নিতে অবশ্য বেশি সময় নেয়নি তারা।
উল্লেখ্য, এবারের আসরে অংশ নেয় পাঁচটি দল। গত আসরের চ্যাম্পিয়ন তুর্কিমেনিস্তান এবারের আসরে অংশ নেয়নি।

প্রতিশোধ নেওয়ার সুযোগ বাংলাদেশের সামনে

বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবলে টানা দুই ম্যাচ জিতে স্বাগতিক বাংলাদেশ এখন ফাইনালে খেলার স্বপ্ন দেখছে। কিন্তু এই ফাইনালের যাওয়ার পথে ‘কিরগিজস্তান’ নামক বাঁধা অতিক্রম করতে হবে।
রোববার বাংলাদেশ সেই কিরগিজস্তানকেই মোকাবেলা করবে মিরপুর শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে। বিকেল চারটায় গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে।
বাংলাদেশ দল ইতিমধ্যেই প্রথম ম্যাচে আফগানিস্তানকে ৩-১ সেটে এবং দ্বিতীয় ম্যাচে নেপালকে ৩-০ সেটে হারিয়েছে। এদিকে বাংলাদেশের মতো কিরগিজস্তানও টানা দুই ম্যাচ জিতে ফাইনালের স্বপ্ন দেখছে। শুক্রবার তারা আফগানিস্তানকে এবং শনিবার মালদ্বীপকে হারিয়ে টানা দ্বিতীয় জয় পেয়েছে।
টানা দুই ম্যাচ জয় পাওয়া স্বাগতিক বাংলাদেশ দলের কোন খেলা ছিল না শনিবার। এদিন আল জাবেরের নেতৃত্বাধীন দলটি বিশ্রামে কাটিয়েছে। যদিও অধিনায়কসহ কয়েকজন খেলোয়াড় প্রতিপ কিরগিজস্তানের ম্যাচ দেখার জন্য স্টেডিয়ামে উপস্থিত ছিলেন।
কিরগিজস্তানের বিপে স্বাগতিক বাংলাদেশের ম্যাচটি কঠিনই হবে। প্রায় দেড় বছর আগে ঢাকায় অনুষ্ঠিত একই টুর্নামেন্টে কিরগিজস্তান স্বাগতিকদের বিপে জিতেছিল ৩-০ সেটে। কিন্তু বদলে যাওয়া বাংলাদেশ কিন্তু এবার কিরগিজস্তানকেই হারানোর জন্য প্রস্তুত। প্রতিশোধ নেওয়ার সুযোগও সামনে এসেছে এবার।
গত আসরে নেপালের কাছে হেরে যাওয়া বাংলাদেশ কিন্তু এবার নেপালকেই হারিয়েছে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে। তাই তার ধারাবাহিকতাটুকু রাখতেই পারে বাংলাদেশ। কিরগিজস্তানকে হারাতে পারলেই টানা ৩ ম্যাচে জয় পেয়ে বাংলাদেশের ফাইনাল নিশ্চিত করবে লাল-সবুজের জার্সিধারীরা। যদি হেরেও যায় তাতে আরো একটি সুযোগ হাতে থাকছে বাংলাদেশের। কারণ শেষ ম্যাচে মালদ্বীপকে হারিয়ে ফাইনালে যাওয়ার সুযোগ থাকছে।
শনিবার দুপুরে বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক সাঈদ আল জাবের বলেন, ‘অবশ্য আমরা এ ম্যাচে জিততে চাই। টানা দুই ম্যাচে জিতে আমরা মানসিকভাবে এগিয়ে আছি। পেছনে তাকানোর কোন সুযোগ নেই। আর তাছাড়া আমরা এর আগে কিরগিজস্তানের বিপে খেলেছি। তারাপরও বর্তমান দলটি সম্পর্কে জানাটা জরুরি।’
এদিকে শনিবার দুপুরে মিরপুর শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত প্রথম ম্যাচে কিরগিজস্তান ৩-০ সেটে মালদ্বীপ হারায়। মালদ্বীপ দেড় বছর আগে এই টুনামেন্টেই কিরগিজস্তানকে সমান ৩-০ ব্যবধানে হারিয়ে সেমিফাইনালে উঠেছিল।
আগের ম্যাচে নেপালের বিপে হেরে যাওয়ার পর এবার টানা দ্বিতীয় হারের স্বাদ পেল মালদ্বীপ। ৩-০ ব্যবধানে কিরগিজস্তানের ম্যাচ জিতে ফাইনালের স্বপ্ন বাঁচিয়ে রেখেছে। ম্যাচে কিরগিজস্তান ২৭ আর মালদ্বীপ ২৫ পয়েন্টে প্রথম সেট শেষ হয়। দ্বিতীয় সেটে কিরগিজস্তান জয় পায় ২৫-২২ পয়েন্টে মালদ্বীপকে হারিয়ে। তৃতীয় সেটে কিরগিজস্তান ২৫ আর মালদ্বীপে ১৮ পয়েন্ট। ফলে ৩-০ ব্যবধানে জয়ী হয় কিরগিজস্তান। ম্যাচসেরা হয়েছেন কিরগিজস্তানের ক্যানিবাক। যিনি আফগানিস্তানের বিপে ম্যাচেও সেরা হয়েছিলেন।
দিনের অপর ম্যাচে কঠিন লড়াইয়ের পর নেপাল ৩-২ সেটে আফগানিস্তানকে হারিয়েছে। এ নিয়ে নেপালের এটি তিন ম্যাচে দ্বিতীয় জয়। ম্যাচ সেরা হয়েছেন নেপালের মানবাহাদুর সিরিস্তা।

নেপালকে হারিয়ে ফাইনালের পথে বাংলাদেশ

বঙ্গবন্ধু সিনিয়র মেন্স সেন্ট্রাল জোন আন্তর্জাতিক ভলিবলে নেপালকে হারিয়ে টানা দ্বিতীয় জয় তুলে নিয়েছে বাংলাদেশ। শুক্রবার মিরপুরের শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে ৩-০ সেটে নেপালকে উড়িয়ে দিয়েছে বাংলাদেশ।
এই জয়ে ফাইনালের পথে অনেকটাই এগিয়ে গেল বাংলাদেশ। শনিবার বিশ্রামে থাকবে স্বাগতিকরা। রবিবার বিকেল ৪টায় মুখোমুখি হবে কিরগিজস্তানের।
ম্যাচে নেপালের বিপে শুরুটা খুব একটা ভালো হয়নি বাংলাদেশের। প্রথম সেটে নেপাল সমান তালে লড়াই করে। তবে শেষ পর্যন্ত ২৫-২২ পয়েন্টে হেরে যায়। দ্বিতীয় সেটের শুরুতে পিছিয়ে পড়ে বাংলাদেশ। কিন্তু দুর্দান্ত লড়াই করে দ্বিতীয় সেটেও ২৫-২২ পয়েন্টে জয় তুলে নেয়। ২-০ সেটে এগিয়ে থাকা আয়োজকদের তৃতীয় সেটেও একই কাহিনী। একপর্য়ায়ে বাংলাদেশ ১৭-১৯ পয়েন্ট নেপালের কাছে পিছিয়ে পড়ে। কিন্তু আবারও দুরন্ত লড়াইয়ে বাংলাদেশ ম্যাচে ফিরে আসে, স্কোর দাঁড়ায় ২১-২১। বাংলাদেশের লড়াকু স্পাইকাররা ২৫-২৩ পয়েন্টে জিতে নেয় সেট, আর ম্যাচ ৩-০ ব্যবধানে।প্রথম দিনে বাংলাদেশ আফগানিস্তানকে ৩-১ সেটে হারিয়েছিল।
এদিকে দিনের প্রথম ম্যাচে ৩-১ সেটে আফগানিস্তানকে হারিয়েছে কিরগিজস্তান।

বাংলাদেশের প্রথম প্রতিপক্ষ আফগানিস্তান

বঙ্গবন্ধু এশিয়ান সিনিয়র পুরুষ সেন্ট্রাল জোন আন্তর্জাতিক ভলিবল চ্যাম্পিয়নশিপে বাংলাদেশ ২২ ডিসেম্বর প্রথম ম্যাচ খেলবে আফগানিস্তানের বিপক্ষে। আগামী ২২ থেকে ২৭ ডিসেম্বর প্রতিযোগিতা মিরপুর শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে। প্রতিযোগিতার অন্য ৩ দল হচ্ছে নেপাল, কিরগিজস্তান ও মালদ্বীপ।
বাংলাদেশের দ্বিতীয় ম্যাচ ২৩ ডিসেম্বর নেপালের বিপক্ষে, তৃতীয় ম্যাচ ২৫ ডিসেম্বর মালদ্বীপের বিপক্ষে এবং চতুর্থ ম্যাচ ২৬ ডিসেম্বর কিরগিস্তাজনের বিপক্ষে। ২৭ ডিসেম্বর ফাইনাল।

জাবীরদের একমাত্র লক্ষ্য শিরোপা জয়

আগামী ২২ থেকে ২৭ ডিসেম্বর শুরু হচ্ছে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবল চ্যাম্পিয়নশিপ। গত আসরে বাংলাদেশ ভলিবল দল সাফল্য না পেলেও এই আসরে ঠিকই সাফল্য তুলে আনার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন অধিনায়ক সাঈদ আল জাবীর।

মিরপুর ইনডোর স্টেডিয়ামে বাংলাদেশসহ বিদেশি ৬টি দল নিয়ে টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত হবে। টুর্নামেন্টে অংশ নেওয়া দলগুলো হচ্ছে- স্বাগতিক বাংলাদেশ, মালদ্বীপ, নেপাল, আফগানিস্তান, উজবেকিস্তান এবং কিরগিজস্তান।

গতবার এই টুর্নামেন্টে ভালো করতে পারেনি বাংলাদেশ। তাই এবার লক্ষ্য একটাই- শিরোপা। এই আসরে দর্শকদের হতাশ করবেন না উল্লেখ করে ভলিবল জাতীয় দলের অধিনায়ক সাঈদ আল জাবীর বলেছেন, ‘গত বার এই টুর্নামেন্টে আমরা ভালো করতে পারিনি। এবার আমাদের একমাত্র লক্ষ্য চ্যাম্পিয়নশিপ। প্রস্তুতি ভালো হয়েছে। আশা করি এবার আমরা হতাশ করব না।’

তিনি আরও যোগ করে বলেছেন, ‘টুর্নামেন্টে যেসব দল অংশ নিচ্ছে তাদের সঙ্গে পূর্বে আমাদের খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে। গত সাউথ এশিয়ান (এসএ) গেমসে মালদ্বীপ, ভুটান, আফগানিস্তানের বিপক্ষে খেলেছি। বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে কিরগিজস্তানের বিপক্ষে খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে। সব মিলে আমি বলব আমরা এবার চ্যাম্পিয়ন ছাড়া অন্য কিছু ভাবছি না।’

এদিকে টুর্নামেন্টকে সামনে রেখে গত এক মাসেরও বেশি সময় জাতীয় দলকে অনুশীলন করাচ্ছেন ইরানিয়ান কোচ আলীপোর। দল নিয়ে বলতে গিয়ে তিনি বলেছেন, ‘এশিয়াতে আমাদের ভলিবল একটা জায়গা তৈরি করেছে। ভলিবলে বাংলাদেশ বর্তমানে ভালো অবস্থানে আছে। এর ভবিষ্যৎ উজ্জ্বল।’

বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবল চ্যাম্পিয়নশিপের লোগো উন্মোচন

আগামী ২২ থেকে ২৭ ডিসেম্বর শুরু হচ্ছে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ভলিবল চ্যাম্পিয়নশিপ। মিরপুর ইনডোর স্টেডিয়ামে বাংলাদেশসহ বিদেশি ৬টি দল নিয়ে এই টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত হবে।

টুর্নামেন্টে অংশ নেওয়া দলগুলো হচ্ছে- স্বাগতিক বাংলাদেশ, মালদ্বীপ, নেপাল, আফগানিস্তান, উজবেকিস্তান এবং কিরগিজস্তান।

টুর্নামেন্টকে সামনে রেখে বৃহস্পতিবার লোগো এবং জার্সি উন্মোচন অনুষ্ঠিত হয়। ঢাকার একটি হোটেলে বৃহৎ পরিসরে অনুষ্ঠানের মাধ্যমে লোগো ও জার্সি উন্মোচন করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাণিজ্যমন্ত্রী এবং টুর্নামেন্টের চেয়ারম্যান তোফায়েল আহমেদ এমপি। বিশেষ অতিথি ছিলেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বীরেন শিকদার এমপি।

টুর্নামেন্টের প্রধান পৃষ্ঠপোষক ডাচ বাংলা ব্যাংক লিমিটেড। আর টুর্নামেন্টের কিটস স্পন্সর লোটো। এছাড়া অন্যান্য অনেক প্রতিষ্ঠান এতে স্পন্সর হিসেবে রয়েছে।

ভলিবল ফেডারেশনের সভাপতি আতিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক হারুনুর রশিদ, ভলিবল ফেডারেশনের সিনিয়র সহ-সভাপতি এএস আসলাম সানি, সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকু, ম্যাক্স গ্রুপের গোলাম মোহাম্মদ আলমগীর, স্পন্সর লোটোর ব্যবস্থাপনা পরিচালক কাজী জামিউল ইসলাম, ভলিবল দলের প্রধান কোচ ইরানিয়ান আলপোর আরোজী এবং জাতীয় ভলিবল অধিনায়ক সাঈদ আল জাবীর ও সহ অধিনায়ক হরষিত।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ তার বক্তব্যে বলেছেন, ‘ক্রিকেট যেভাবে এগিয়ে গেছে, ভলিবলসহ অন্য খেলাকেও এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে। আন্তর্জাতিক এশিয়ান সেন্ট্রাল জোনে অনেক স্পন্সর প্রতিষ্ঠান এগিয়ে এসেছে দেখে ভালো লাগছে।’

ভলিবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকু তার বক্তব্যে বলেছেন, ‘ভলিবলকে পুনর্জীবন দিতে আমরা নানামুখী উদ্যোগ নিচ্ছি। এর ধারাবাহিকতায় দ্বিতীয় বারের মতো আন্তর্জাতিক এই টুর্নামেন্টেটি মাঠে গড়াচ্ছে। আশা করি সবার সহযোগিতা নিয়ে আমরা ভলিবলকে সামনে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারব।’

উল্লেখ্য, দ্বিতীয়বারের মতো এই আসরটি অনুষ্ঠিত হচ্ছে। দ্বিতীয়বারের মতো অনুষ্ঠিত টুর্নামেন্টে জাতির জনক ‘বঙ্গবন্ধু’র নামটি সংযোজন করা হয়েছে।

ইরানের তিন ভলিবল খেলোয়াড় ঢাকায়

এবারের ন্যাশনাল ব্যাংক ঢাকা মহানগরী প্রিমিয়ার বিভাগ ভলিবল লীগে বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ড এর হয়ে খেলতে ঢাকায় এসেছেন ইরানের তিন ভলিবল খেলোয়াড়। প্রিমিয়ার লীগে এবারই প্রথম খেলতে দেখা যাবে এই তিন বিদেশী খেলোয়াড়ারকে। এরা হলেন আরিফ মুরাদি, নিমা ইস্পানদিয়ারী ও আলী রেজা মুরাদী। এই তিনজন ভলিবলার ইরানের সুপার লীগে খেলে থাকেন।
বৃহস্পতিবার (১২ মে) ন্যাশনাল ব্যাংক ঢাকা মহানগরী প্রিমিয়ার বিভাগ ভলিবল লীগের নির্ধারিত সময়ে দুটি খেলা শুরু হলেও এক পর্যায়ে ভারী বৃষ্টির কারণে খেলা চালোনো সম্ভব হয়নি। ফলে তিনটি ম্যাচই পরিত্যাক্ত ঘোষণা করে লীগ কমিটি।
উল্লেখ্য, শুক্রবার (১৩মে) নিদিষ্ট সময়ে তিনটি ম্যাচই অনুষ্ঠিত হবে।

ওয়ালটন প্রথম বিভাগ ভলিবলে চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ জেল

পল্টনস্ত ভলিবল স্টেডিয়ামে বিকেলে অনুষ্ঠিত ওয়ালটন ঢাকা মহানগরী প্রথম বিভাগ ভলিবল লিগ ফাইনালে ইস্ট এন্ড ক্লাবকে পারাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করেছে বাংলাদেশ জেল। ফাইনাল খেলায় বাংলাদেশ জেল ২৫-১৯, ২৫-১৩, ২৫-১৬ পয়েন্টে ৩-০ সেটে ইস্ট এন্ড ক্লাবকে পরাজিত করে। চ্যাম্পিয়ন হওয়ার মধ্য দিয়ে বাংলাদেশ জেল দল প্রিমিয়ার ডিভিশনে উন্নীত হয়েছে।
এদিকে বিকেল ৩টায় অনুষ্ঠিত তৃতীয় ও চতুর্থ স্থান নির্ধারণী ম্যাচে সোনালী ব্যাংক রিক্রিয়েশন ক্লাবকে হারিয়ে তৃতীয় হয়েছে নবজাগরনী সংঘ। ওয়ালটন ঢাকা মহানগরী প্রথম বিভাগ ভলিবল লিগের সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হয়েছেন বাংলাদেশ জেলের নাসির। তাকে পৃষ্ঠপোষক প্রতিষ্ঠান ওয়ালটনের পক্ষ থেকে হোম অ্যাপ্লায়েন্স দিয়ে উৎসাহিত করা হয়।

ফাইনাল খেলা শেষে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে পুরস্কার বিতরণ করেন পৃষ্ঠপোষক প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন গ্রুপের সিনিয়র এডিশনাল ডিরেক্টর এফ.এম ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন)। এ সময়ে ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক (চলতি দায়িত্বে) এ্যাডঃ ফজলে রাব্বি বাবুল, সহ-সভাপতি মোস্তফা কামাল, যুগ্ম-সম্পাদক আজিজুর রহমান ও টুর্নামেন্ট কমিটির সম্পাদক কাজী আব্দুল হান্নানসহ ফেডারেশনের অন্যান্য সদস্য ও কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
উল্লেখ্য, এবারের ওয়ালটন ঢাকা মহানগরী প্রথম বিভাগ ভলিবল লিগে ৯টি দল অংশ নেয়। দলগুলো হল- বাংলাদেশ জেল, ইস্ট এন্ড ক্লাব, নবজাগরনী সংঘ, উত্তরা স্পোর্টিং ক্লাব, মাদারটেক মিতালী সংঘ, শাহবাগ স্পোর্টিং ক্লাব, সাবলম্বী সোসাইটি ক্লাব, ভাই ভাই সংঘ ও সোনালী ব্যাংক রিক্রিয়েশন ক্লাব।

ওয়ালটন ভলিবলের ফাইনালে ইস্ট এন্ড ক্লাব ও জেল

১৯ এপ্রিল মঙ্গলবার থেকে ওয়ালটন গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় ঢাকা ভলিবল স্টেডিয়ামে শুরু হয়েছে ওয়ালটন ঢাকা মহানগরী প্রথম বিভাগ ভলিবল লিগ-২০১৬। এই প্রতিযোগিতা চলবে ৪ মে পর্যন্ত। বুধবার প্রতিযোগিতার নবম দিনের প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি হয় বাংলাদেশ জেল ও সোনালী ব্যাংক। খেলায় বাংলাদেশ জেল ২৫-১৮, ১৯-২৫, ২৫-২০, ১৯-২৫, ১৫-০৯ পয়েন্টে ৩-২ সেটে সোনালী ব্যাংককে পরাজিত করে। আর দ্বিতীয় ম্যাচে ইস্ট এন্ড ক্লাব ২৫-১৯, ২৫-১৭, ১৮-২৫, ২৫-২১ পয়েন্টে ৩-১ সেটে নবজাগরনী সংঘকে হারায়।
এই জয়ের ফলে ফাইনালে উন্নীত হয়েছে বাংলাদেশ জেল ও ইস্ট এন্ড ক্লাব। শিরোপা নির্ধারণী ফাইনালে তারা মুখোমুখি হবে। অন্যদিকে তৃতীয় ও চতুর্থ স্থান নির্ধারণী ম্যাচে আগামীকাল বৃহস্পতিবার মুখোমুখি হবে সোনালী ব্যাংক রিক্রিয়েশন ক্লাব ও নবজাগরনী সংঘ। এবারের ওয়ালটন ঢাকা মহানগরী প্রথম বিভাগ ভলিবল লিগে অংশ নিয়েছে ৯টি দল। দলগুলো হল- বাংলাদেশ জেল, ইস্ট এন্ড ক্লাব, নবজাগরনী সংঘ, উত্তরা স্পোর্টিং ক্লাব, মাদারটেক মিতালী সংঘ, শাহবাগ স্পোর্টিং ক্লাব, সাবলম্বী সোসাইটি ক্লাব, ভাই ভাই সংঘ ও সোনালী ব্যাংক রিক্রিয়েশন ক্লাব।
প্রতিযোগিতার চ্যাম্পিয়ন দল প্রিমিয়ার ডিভিশনে উত্তীর্ণ হবে। আর একটি দল রেলিগেশন প্রাপ্ত হয়ে দ্বিতীয় বিভাগে নেমে যাবে। ওয়ালটন প্রথম বিভাগ ভলিবল প্রতিযোগিতার একজন সেরা খেলোয়াড়কে ওয়ালটনের পক্ষ থেকে হোম অ্যাপ্লায়েন্স দিয়ে উৎসাহিত করা হবে।

ওয়ালটন প্রথম বিভাগ ভলিবল লিগ মঙ্গলবার শুরু

প্রথম বিভাগ, দ্বিতীয় বিভাগ, আন্তঃজেলা ভলিবল থেকে শুরু করে প্রায় সব ধরনের প্রতিযোগিতায় পৃষ্ঠপোষকতা করছে ওয়ালটন গ্রুপ। এবারের ৩৭তম প্রথম বিভাগ ভলিবল লিগেও ওয়ালটন পৃষ্ঠপোষকতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছে। মঙ্গলবার থেকে শুরু হতে যাচ্ছে ওয়ালটন প্রথম বিভাগ ভলিবল লিগ। পল্টনস্থ বাংলাদেশ ভলিবল স্টেডিয়ামে এই লিগ চলবে ৪ মে পর্যন্ত।সোমববার এ উপলে বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামের সভাকে সংবাদ সম্মেলনে বিভিন্ন তথ্য তুলে ধরেন বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকু। এবারের প্রথম বিভাগ ভলিবল লিগে অংশ নিচ্ছে ৯টি দল। দলগুলো হলো- বাংলাদেশ জেল, ইস্ট এন্ড কাব, নবজাগরণী সংঘ, উত্তরা স্পোর্টিং কাব, মাদারটেক মিতালী সংঘ, শাহবাগ স্পোর্টিং কাব, সাবলম্বী সোসাইটি কাব, ভাই ভাই সংঘ ও সোনালী ব্যাংক রিক্রিয়েশন কাব। এই লিগ থেকে রেলিগেশনের মাধ্যমে একটি দল দ্বিতীয় বিভাগে নেমে যাবে। আর দ্বিতীয় বিভাগের চ্যাম্পিয়ন দল সুযোগ পাবে প্রথম বিভাগে খেলার। প্রতিযোগিতার একজন সেরা খেলোয়াড়কে ওয়ালটন গ্রুপের প থেকে আকষর্ণীয় হোম অ্যাপ্লায়েন্স দিয়ে উৎসাহিত করা হবে। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন পৃষ্ঠপোষক প্রতিষ্ঠান ওয়ালটনের সিনিয়র অ্যাডিশনাল ডিরেক্টর এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন), এজিএম মেহরাব হোসেন আসিফ। উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদকসহ অন্য কর্মকর্তারা।

বৃহস্পতিবার শুরু মার্সেল দ্বিতীয় বিভাগ ভলিবল

বৃহস্পতিবার থেকে শুরু হতে যাচ্ছে মার্সেল ট্যালেন্ট হান্ট ঢাকা মহানগরী দ্বিতীয় বিভাগ ভলিবল লিগ-২০১৬। এই টুর্নামেন্ট মূলত এক ধরনের ট্যালেন্ট হান্ট প্রতিযোগিতা।
এখানে যারা ভালো করবে এক সময় তারা জাতীয় দলে খেলার সুযোগ পাবে। জাতীয় দলকে নেতৃত্ব দেবে। বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের এই ধরনের ট্যালেন্ট হান্ট প্রতিযোগিতার সঙ্গেও যুক্ত হয়েছে দেশের স্বনামধন্য ইলেকট্রিক্যাল, ইলেকট্রনিকস, অটোমোবাইলস, হোম অ্যাপ্লায়েন্স ও টেলিকমিউনিকেশন পণ্য প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন গ্রুপের জনপ্রিয় ব্র্যান্ড মার্সেল।
এবারের মার্সেল ট্যালেন্ট হান্ট ঢাকা মহানগরী দ্বিতীয় বিভাগ ভলিবল টুর্নামেন্টে ৯টি দল অংশ নিচ্ছে। আগের আসরে ৮টি দল অংশ নিয়েছিল। নতুন দুটি দল হলো বাংলাদেশ আনসার ও বিকেএসপি।
মঙ্গলবার এ বিষয়ে বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামের সভাকক্ষে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন ওয়ালটন গ্রুপের সিনিয়র এডিশনাল ডিরেক্টর ও স্পোর্টস এন্ড ওয়েলফেয়ার বিভাগের প্রধান, বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের সিনিয়র টুর্নামেন্ট কমিটির চেয়ারম্যান এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন), এজিএম মেহরাব হোসেন আসিফ। উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকু ও যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক অ্যাড: ফজলে রাব্বী বাবুলসহ ফেডারেশনের অন্যান্য কর্মকর্তাগণ।

স্বাধীনতা দিবস ভলিবলের ফাইনালে সেনাবাহিনী-তিতাস

ওয়ালটন স্বাধীনতা দিবস ভলিবলের ফাইনালে পৌঁছেছে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী ও তিতাস ক্লাব। শনিবার ঢাকা ভলিবল স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত প্রথম সেমিফাইনাল খেলায় বাংলাদেশ সেনাবাহিনী ২৫-১৪, ২৫-২১, ২৫-১৪ পয়েন্টে ৩-০ সেটে বাংলাদেশ নৌ বাহিনীকে পরাজিত করে ফাইনাল খেলার যোগ্যতা অর্জন করে । অপরদিকে দ্বিতীয় সেমি ফাইনালে তিতাস ক্লাব ২৬-২৪, ২৮-২৬, ২৬-২৪ পয়েন্টে ৩-০ সেটে বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড ভলিবল দলকে পরাজিত করে।
কাল রবিবার ভলিবল স্টেডিয়ামে দুপুর ২টায় তৃতীয় স্থান নির্ধারণী ম্যাচে খেলবে বাংলাদেশ নৌ বাহিনী ও বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড। ফাইনাল ম্যাচ গড়াবে বিকাল ৩টায়।

ওয়ালটন ২০তম স্বাধীনতা দিবস ভলিবল বুধবার শুরু

চলছে অগ্নিঝরা মার্চ মাস। মহান স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে ভলিবল টুর্নামেন্টের আয়োজন করতে যাচ্ছে বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশন। বরাবরের মতো এবারও ভলিবল ফেডারেশনের সঙ্গে সম্পৃক্ত হয়েছে দেশের স্বনামধন্য ইলেকট্রিক্যাল, ইলেকট্রনিকস, অটোমোবাইলস, হোম অ্যাপ্লায়েন্স ও টেলিকমিউনিকেশন পণ্য প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন গ্রুপ।
ওয়ালটন গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় বুধবার থেকে শুরু হচ্ছে ‘ওয়ালটন ২০তম স্বাধীনতা দিবস ভলিবল টুর্নামেন্ট-২০১৬’। প্রতিযোগিতা চলবে ১৩ মার্চ পর্যন্ত।
এ বিষয়ে মঙ্গলবার জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের সভাকক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন ওয়ালটন গ্রুপের সিনিয়র এডিশনাল ডিরেক্টর ও স্পোর্টস এন্ড ওয়েলফেয়ার বিভাগের প্রধান এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন), এজিএম মেহরাব হোসেন আসিফ, বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের যুগ্ম সম্পাদক ফজলে রাব্বি বাবুলসহ ফেডারেশনের অন্যান্য কর্মকর্তারা।
এক বক্তব্যে এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন) বলেন, ‘আমরা ওয়ালটন গ্রুপ প্রায় সব ফেডারেশনের সঙ্গেই সম্পৃক্ত হওয়ার চেষ্টা করছি। ওয়ালটন গ্রুপ এর আগেও ভলিবল ফেডারেশনের সঙ্গে সম্পৃক্ত হয়েছিল। এবারও সম্পৃক্ত হয়েছি। আমরা বিশ্বাস করি এই টুর্নামেন্টের মাধ্যমে ভালো কিছু খেলোয়াড় উঠে আসবে। তাদের মাধ্যমে এক সময় ভলিবল দেশে ও দেশের বাইরে বাংলাদেশের নাম উজ্জ্বল করবে।’
ওয়ালটন গ্রুপকে ধন্যবাদ জানিয়ে যুগ্ম সম্পাদক ফজলে রাব্বি বাবুল বলেন, ‘ওয়ালটন গ্রুপ আবারও ভলিবলের পৃষ্ঠপোষকতা করতে এগিয়ে আসায় তাদের ধন্যবাদ জানাচ্ছি। আশা করছি ভবিষ্যতেও তাদেরকে আমরা পাশে পাব।’
সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয় এবারের এই ২০তম ওয়ালটন স্বাধীনতা দিবস ভলিবল টুর্নামেন্টে ৯টি দল অংশ নিচ্ছে। দলগুলো হলো বাংলাদেশ সেনাবাহিনী, বাংলাদেশ নৌবাহিনী, বাংলাদেশ পুলিশ, বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড, বাংলাদেশ বিমান বাহিনী, আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনী, তিতাস ক্লাব, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স এবং বাংলাদেশ ক্রীড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠান।
প্রতিযোগিতার সেরা খেলোয়াড়কে ওয়ালটন গ্রুপের পক্ষ থেকে হোম অ্যাপ্লায়েন্স দিয়ে উৎসাহিত করা হবে।

মহিলা ভলিবলের সেমিফাইনাল রোববার

পপুলার লাইফ ইনস্যুরেন্স ঢাকা মহানগরী উন্মুক্ত মহিলা ভলিবল প্রতিযোগিতার সেমিফাইনালে উঠেছে বাংলাদেশ আনসার, ওয়ারী ক্লাব, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ও বাংলাদেশ পুলিশ। পল্টন ভলিবল স্টেডিয়ামে রোববার (৩১ জানুয়ারি) সেমিফাইনালের দুটি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে।
প্রতিযোগিতার দ্বিতীয় দিনে মোট চারটি খেলা অনুষ্ঠিত হয়। প্রথম খেলায় বাংলাদেশ পুলিশ ৩-০ সেটে ভিকারুন নিসা নুন স্কুলকে হারায়। দ্বিতীয় ম্যাচে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ৩-০ সেটে পরাজিত করে বিইউপি’কে।
তৃতীয় ম্যাচে ওয়ারী ক্লাব ৩-০ সেটে সহজেই হারায় ভিকারুন নিসাকে। দিনের চতুর্থ ও শেষ ম্যাচে বাংলাদেশ আনসার ৩-০ সেটে জয় পায় বিইউপি’র বিপক্ষে।
রোববার বিকেল সাড়ে তিনটায় প্রথম সেমিতে মুখোমুখি হবে ক-গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন ওয়ারী ক্লাব ও খ-গ্রুপ রানার্স আপ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়। একই সময়ে দ্বিতীয় সেমিফাইনালে লড়বে খ-গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ আনসার ও ক-গ্রুপ রানার্স আপ বাংলাদেশ পুলিশ।

চলে গেলেন সৈয়দুজ্জামান বাদশা

বাংলাদেশের সাবেক জাতীয় ভলিবল প্রশিক্ষক ও ত‍ৎকালীন ইস্ট পাকিস্তান ভবিবল দলের খ্যাতিমান খেলোয়াড় সৈয়দুজ্জামান বাদশা ইন্তেকাল করেছেন (ইন্নালিল্লাহি….. রাজিউন)।
মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণ জনিত রোগে আক্রান্ত হয়ে দীর্ঘদিন চিকিৎসাধীন থাকার পর শনিবার (৩০ জানুয়ারি) দুপুর ১টায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন। মৃত্যুকাল তাঁর বয়স হয়েছিল ৭৫ বছর।
সৈয়দুজ্জামান বাদশার মৃত্যুতে বাংলাদেশ ভলিবল ফেডরেশনের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক ও সদস্যবৃন্দ গভীর শোকসহ তাঁর বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা এবং মরহুমের শোকাহত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন।

উচ্চতর প্রশিণ নিতে ইরান যাচ্ছে জাতীয় ভলিবল দল

আগামী বছর ০৬ থেকে ১৬ ফেব্রুয়ারি ভারতের আসাম রাজ্যে অনুষ্ঠিত হবে ১২তম এস.এ গেমস। এবারের আসরে বাংলাদেশ জাতীয় ভলিবল দল অংশ নেবে। এস.এ গেমসকে সামনে রেখে উচ্চতর প্রশিণ ও ১০টি প্রীতি ম্যাচে অংশ নিতে ১৯ সদস্য বিশিষ্ট বাংলাদেশ জাতীয় ভলিবল দল রোববার রাত সাড়ে নয়টায় এয়ার অ্যারাবিয়া বিমান যোগে ইরানের উদ্দেশ্যে ঢাকা ত্যাগ করবে। পরদিন অর্থাৎ ২২ ডিসেম্বর দুপুর ২টায় তারা ইরান পৌঁছাবে।
বাংলাদেশ জাতীয় ভলিবল দলের উচ্চতর প্রশিণ ও প্রীতি ম্যাচে অংশগ্রহণ উপলে শনিবার মিরপুর শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর ষ্টেডিয়ামের ভিআইপি সভাকে এক সংবাদ সম্মেলনে বিভিন্ন তথ্য প্রদান করেন বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের সভাপতি মো. আতিকুল ইসলাম। এ সময় উপস্থিত ছিলেন ওয়ালটন গ্রুপের ফার্স্ট সিনিয়ার এডিশনাল ডিরেক্টর এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন), সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকুসহ অন্যান্যরা।
ইরানগামী বাংলাদেশ জাতীয় ভলিবল দলের কর্মকর্তা ও খেলোয়াড়দের তালিকা : এ্যাডঃ ফজলে রাব্বি বাবুল, যুগ্ন সম্পাদক, মোহাম্মদ আজিজুর রহমান, ম্যানেজার। প্রশিক হিসেবে যাবেন মো. ইমদাদুল হক, মো. নজরুল ইসলাম, মাসুদ হাফিজ।
খেলোয়াড় : মাসুদ হোসেন, হরসিৎ বিশ্বাস, শেখ সিহাব আহমেদ, মোঃ মনির হোসেন, মোহাম্মদ হুমায়ুন কবির, মোঃ সাইদুজ্জামান, মোঃ শাহজাহান আলী, মোঃ সোহেল রানা, সাইদ আল জাবির, মোহাম্মদ কায়সার হামিদ, মোঃ মহসিন উদ্দিন, মোঃ আসলাম হোসেন, মোহাম্মদ সোনা মিয়া ও সৈয়দ আতিকুর রহমান।

ওয়ালটন বিজয় দিবস ভলিবল টুর্নামেন্ট সমাপ্ত

দেশের স্বনামধন্য ইলেকট্রিক্যাল, ইলেকট্রনিকস, অটোমোবাইলস ও হোম অ্যাপ্লায়েন্স প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় অনুষ্ঠিত হয় ‘ওয়ালটন বিজয় দিবস ভলিবল টুর্নামেন্ট-২০১৫’। বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের ব্যবস্থাপনায় তিনদিন ব্যাপী এই প্রতিযোগিতা আজ পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানের মধ্যে দিয়ে শেষ হয়েছে।
ফাইনালে জাতীয় পুরুষ ‘এ’ দল ২৫-২০, ২৫-২২, ২৫-২০ পয়েন্টে ৩-০ সেটে জাতীয় ‘বি’ দলকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করে। আর নারী বিভাগে বিজেএমসি ২৫-১৪, ২৫-১৩, ১৬-২৫, ২৫-২২ পয়েন্টে ৩-১ সেটে আনসার দলকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হয়। টুর্নামেন্টের সেরা দুজন খেলোয়াড়কে (নারী ও পুরুষ) ওয়ালটন হোম অ্যাপ্লায়েন্স দিয়ে উৎসাহিত করা হয়।
মঙ্গলবার সকাল ১১টায় শহীদ সোহ্রাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে ‘ওয়ালটন বিজয় দিবস ভলিবল টুর্নামেন্ট-২০১৫’ সমাপনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে পুরস্কার বিতরণী করবেন ইরান দূতাবাসের কাউন্সেলর ও ডেপুটি হেড অব দ্য মিশন- বাহরাম সাইফজাদেহ্। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পৃষ্ঠপোষক প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন গ্রুপের ফার্স্ট সিনিয়র এডিশনাল ডিরেক্টর এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন)। আরো উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের যুগ্ম-সম্পাদক অ্যাড: ফজলে রাব্বি বাবুল ও প্রবীণ ক্রীড়া সংগঠক আলহাজ্ব ফরিদা আক্তার বেগম এবং টুর্নামেন্ট কমিটির অন্যন কর্মকর্তাগণ।
এক বক্তব্যে ওয়ালটন গ্রুপের এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন) বলেন, ‘ওয়ালটন গ্রুপ সব সময় খেলাধুলায় পৃষ্ঠপোষকতার হাত বাড়িয়ে দিবে। বিশেষ করে খেলাধুলার মাধ্যমে সুস্থ্য জাতি গঠনের ক্ষেত্রে। আশা করছি ওয়ালটন বিজয় দিবস ভলিবল টুর্নামেন্টের মাধ্যমে আমাদের খেলোয়াড়রা তাদের আরো একবার ঝালিয়ে নেওয়ার সুযোগ পেয়েছে। এই টুর্নামেন্ট থেকে তারা নতুন কিছু শিখেতে পেরেছে। যা আসন্ন এসএ গেমসে কাজে লাগাতে পারবে এবং দেশের জন্য ভালো ফল বয়ে নিয়ে আসতে পারবে।’

ওয়ালটন বিজয় দিবস ভলিবল টুর্নামেন্ট শুরু

দেশের স্বনামধন্য ইলেকট্রিক্যাল, ইলেকট্রনিকস, অটোমোবাইলস ও হোম অ্যাপ্লায়েন্স প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় রোববার থেকে শুরু হয়েছে ‘ওয়ালটন বিজয় দিবস ভলিবল টুর্নামেন্ট-২০১৫’। তিনদিন ব্যাপী এই প্রতিযোগিতা শেষ হবে ১৫ ডিসেম্বর। সবগুলো ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে মিরপুরস্থ শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে।
রোববার সকালে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন ওয়ালটন গ্রুপের ফার্স্ট সিনিয়র এডিশনাল ডিরেক্টর এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন)। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কুলসুম পারভীন, অ্যাসিস্ট্যান্ড ডিরেক্টর, ওয়ালটন গ্রুপ। উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকু ও যুগ্ম-সম্পাদক অ্যাড: ফজলে রাব্বি বাবুল। আরো উপস্থিত ছিলেন প্রবীণ ক্রীড়া সংগঠক আলহাজ্ব ফরিদা আক্তার বেগম।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এক বক্তব্যে এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন) বলেন, ‘সামনে এসএস গেমস রয়েছে। সেই গেমসের জন্য ভলিবল দলের ক্যাম্প চলছে। তাদের অনুশীলকে আরো কার্যকর করে তুলতেই এই টুর্নামেন্ট আয়োজন করা হয়েছে। আশা করছি এই টুর্নামেন্টের মাধ্যমে এসএ গেমসের জন্য সেরা খেলোয়াড় বাছাই করে দল গঠন করা সহজ হবে। এবং আশা করি এসএ গেমসে ভলিবলে ভালো ফল আসবে। এর আগেও আমরা ভলিবলের সঙ্গে কাজ করেছি। ওয়ালটনের পৃষ্ঠপোষকতায় জাতীয় ভলিবল, প্রথম বিভাগ, দ্বিতীয় বিভাগ ভলিবল লিগসহ বেশকিছু টুর্নামেন্ট আয়োজিত হয়েছে। আমরা ওয়ালটন গ্রুপ চেষ্টা করব ভবিষ্যতেও ভলিবল ফেডারেশনের সঙ্গে যুক্ত হতে।’
উদ্বোধনী দিনে তিনটি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হয়। পুরুষ বিভাগে বাংলাদেশ ‘এ’ দল ৩-০ সেটে হারায় বাংলাদেশ ‘ডি’ দলকে। আর বাংলাদেশ ‘বি’ দল একই ব্যবধানে হারায় বাংলাদেশ ‘সি’ দলকে। এদিকে নারী বিভাগের একটি ম্যাচে বাংলাদেশ আনসার ৩-০ সেটে হারায় বাংলাদেশ পুলিশ মহিলা দলকে।

বিজয় দিবস ভলিবল টুর্নামেন্ট রবিবার

রবিবার থেকে শুরু হচ্ছে ওয়ালটন বিজয় দিবস ভলিবল টুর্নামেন্ট-২০১৫। ৩ দিনব্যাপী এই প্রতিযোগিতা শেষ হবে ১৫ ডিসেম্বর। সবগুলো ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে মিরপুরস্থ শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে। প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করবেন ওয়ালটন গ্রুপের ফার্স্ট সিনিয়র এডিশনাল ডিরেক্টর এফ এম ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন)। এ ছাড়া উপস্থিত থাকবেন ওয়ালটনের কুলসুম পারভীন, বাংলাদেশ ভলিবল ফেডারেশনের সভাপতি আতিকুল ইসলাম প্রমুখ।
এবার বাংলাদেশ জাতীয় ভলিবল দলের খেলোয়াড়দের ৪টি গ্রুপে বিভক্ত করে প্রতিদ্বন্দ্বিতা অনুষ্ঠিত হবে। আর মেয়েদের বিভাগে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবে বাংলাদেশ পুলিশ মহিলা ভলিবল দল, বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনী এবং বাংলাদেশ পাটকল কর্পোরেশন। এই প্রতিযোগিতার ইভেন্ট পার্টনার ওয়ালটন গ্রুপের ব্র্যান্ড মার্সেল।