রাত ৪:২৭, মঙ্গলবার, ২৬শে জুন, ২০১৭ ইং

ভারতের উড়িষ্যা রাজ্যের ভূবনেশ্বর শহরে অায়োজিত ১০ কিট আন্তর্জাতিক দাবা ফেস্টিভালের তৃতীয় রাউন্ডের খেলা শেষে গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান পূর্ণ ৩ পয়েন্ট নিয়ে ১০ জন খেলোয়াড়ের সাথে মিলিতভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন। গ্র্যান্ড মাস্টার রিফাত বিন সাত্তার ও ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান আড়াই পয়েন্ট করে অর্জন করে অন্য ৩০ জনের সাথে মিলিতভাবে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন। তিন খেলায় আনিসুজ্জামান জুয়েল ২ পয়েন্ট, গ্র্যান্ড মাস্টার নিয়াজ মোরশেদ ও মোহাম্মদ সিরাজুল কবীর দেড় পয়েন্ট করে, মোঃ জামাল উদ্দিন, শাহনাজ মোহাম্মদ ফারুক, মিজানুর রহমান, মোঃ রাজু আহমেদ ও সাদনান হাসান দিহান এক পয়েন্ট করে এবং ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন আধা পয়েন্ট অর্জন করেছেন। গতকাল (শনিবার) সন্ধ্যায় অনুষ্ঠিত তৃতীয় রাউন্ডের খেলায় জিয়া ভারতের আকাশ আইয়ারকে, রিফাত ভারতের জিৎ জেনকে, ফাহাদ শ্রীলংকার অমরাসিংহেকে, জুয়েল ভারতের আগাম আদিত্যকে ও রাজু ভারতের গৌর হরি মহাপুত্রকে পরাজিত করেন। নিয়াজ ভারতের মহিতে রানবিরের সাথে ও সিরাজ ভারতের শারাভানান কৃষ্ণানের সাথে ড্র করেন। দিহান ভারতের আন্তর্জাতিক মাস্টার রতœাকরণের কাছে, শাহনাজ ইংল্যান্ডের সারদানা হৃষির কাছে, মিজান নেপালের হিমাল লামার কাছে, জামাল ভারতের হরি সুরেশের কাছে, মাহফুজ বিনয় থমাস আব্রাহামের কাছে, হাসান ভারতের তৃষা কানিয়ামারালার কাছে ও মনোন ভারতের রওনক মন্ডলের কাছে হেরে যান।

এলিগেন্ট দাবায় শাকিল চ্যাম্পিয়ন

এলিগেন্ট ফিদে র‌্যাপিড রেটিং দাবা প্রতিযোগিতায় আন্তর্জাতিক মাস্টার আবু সুফিয়ান শাকিল চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন। তিনি ৭ খেলায় ৬ পয়েন্ট পেয়ে শিরোপা জয় করেন। শাকিল এবং আরো ৪জন খেলোয়াড় ৬ পয়েন্ট করে অর্জন করেন। টাইব্রেকিং পদ্ধতিতে শাকিল চ্যাম্পিয়ন, আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজ উদ্দিন রানার-আপ, গ্র্যান্ড মাস্টার রিফাত বিন সাত্তার তৃতীয়, মোহাম্মদ শরীফ হোসেন চতুর্থ এবং ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ জাভেদ পঞ্চম স্থান লাভ করেন।
সাড়ে পাঁচ পয়েন্ট করে নিয়ে ফিদে মাস্টার সেখ নাসির আহমেদ ষষ্ঠ, ক্যান্ডিডেট মাস্টার চঞ্চল কুমার ঘোষ সপ্তম, ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন অষ্টম এবং ফিদে মাস্টার মেহেদী হাসান পরাগ নবম হন। পাঁচ পয়েন্ট করে নিয়ে টাইব্রেকিংয়ে দশম হতে পঞ্চদশ স্থান পান যথাক্রমে মাহতাব উদ্দিন আহমেদ, শফিক আহমেদ, গোলাম মোস্তফা ভূঁইয়া, মুজিবুর রহমান, শরিয়তউল্লাহ ও শাহরিয়ার সালেহীন।
সেরা বালিকার পুরস্কার পান কাজী জেরিন তাসমিন, সেরা মহিলা আন্তর্জাতিক মাস্টার রানী হামিদ, সেরা বালক সাজেদুল হক ও সেরা আনরেটেড খেলোয়াড়ের পুরস্কার পান ময়েদুর রহমান মওদুদ। দিনব্যাপী এ র‌্যাপিড দাবা প্রতিযোগিতা শুক্রবার উত্তরার ইয়ুথ বাংলা অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত হয়।
খেলা শেষে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ সভাপতি ও এলিগেন্ট ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের চেয়ারম্যান তরফদার মোঃ রুহুল আমিন বিজয়ীদের পুরস্কৃত করেন। এ সময় বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ শাহাব উদ্দিন শামীম, গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান ও ইয়ুথ বাংলার ফাউন্ডার চেয়ারম্যান ফিরোজ আহমেদ উপস্থিত ছিলেন। প্রতিযোগিতা ৭ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হয় এবং বিজয়ীদের নগদ পঞ্চাশ হাজার টাকার অর্থ পুরস্কার দেয়া হয়। ১০৯ জন খেলোয়াড় এ ইভেন্টে অংশ নেন।

বালকে ফাহাদ এবং বালিকা বিভাগে নোশিন চ্যাম্পিয়ন

এক ম্যাচ আগেই জাতীয় জুনিয়র দাবার ওপেন বিভাগে শিরোপা জিতেছিলেন ফাহাদ। বালিকা বিভাগের শিরোপা জিতলেন নোশিন আঞ্জুম।
৩৭তম জাতীয় জুনিয়র দাবা চ্যাম্পিয়নশিপের ওপেন বিভাগে গতবারের চ্যাম্পিয়ন পিরোজপুরের ফিদে মাস্টার ফাহাদ রহমান অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হন। ঢাকার লিটল জুয়েলস ইন্টারন্যাশনালের ছাত্র ফাহাদ ৮ খেলায় পূর্ণ ৮ পয়েন্ট পেয়ে শিরোপা জয় করেন। অপরদিকে বালিকা বিভাগে নরসিংদীর নোশিন আঞ্জুম চ্যাম্পিয়ন হন। নোশিন ৮ খেলায় সাড়ে ছয় পয়েন্ট পেয়ে শিরোপা জেতেন।
ওপেন বিভাগে সাড়ে ছয় পয়েন্ট করে নিয়ে টাইব্রেকিংয়ে ময়মনসিংহের সুব্রত বিশ^াস রানারআপ এবং সিরাজগঞ্জের নাইম হক তৃতীয় হন। ছয় পয়েন্ট করে নিয়ে অনতা চৌধুরী চতুর্থ, তাহসিন তাজওয়ার জিয়া পঞ্চম এবং আব্দুল্লাহ আল রাইসন ষষ্ঠ স্থান লাভ করেন। সাড়ে পাঁচ পয়েন্ট করে নিয়ে সপ্তম হতে একাদশ হন যথাক্রমে চট্টগ্রামের আকিব জাওয়াদ, পাবনার ইকরামুল হক সিয়াম, সর্নাভো চৌধুরী, রিসান ও নারায়ণগঞ্জের সাদনান হাসান দিহান।
এদিকে, বালিকা বিভাগে ছয় পয়েন্ট করে নিয়ে টাইব্রেকিং পদ্ধতিতে তানজিনা আক্তার তানি রানারআপ এবং বগুড়ার প্রতিভা তালুকদার তৃতীয় হন। সাড়ে পাঁচ পয়েন্ট করে নিয়ে নারায়ণগঞ্জের ঝর্না বেগম চতুর্থ ও খূশী আক্তার পঞ্চম এবং মানিকগঞ্জের কাজী জেরিন তাসনিম ষষ্ঠ হন।

জুনিয়র দাবায় ফাহাদ চ্যাম্পিয়ন

এক রাউন্ড আগেই জাতীয় জুনিয়র দাবা চ্যাম্পিয়নশিপের ওপেন বিভাগে শিরোপা জিতলেন আগেরবারের চ্যাম্পিয়ন ফিদে মাস্টার ফাহাদ রহমান। পিরোজপুরের এই দাবাড়– ৭ খেলায় পূর্ণ সাত পয়েন্ট পেয়ে চ্যাম্পিয়ন হন। বুধবার জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের দাবা কক্ষে, সপ্তম রাউন্ডের খেলায় ফাহাদ তাহসিন তাজওয়ার জিয়াকে পরাজিত করেন। ওপেন বিভাগে ছয় পয়েন্ট করে নিয়ে ময়মনসিংহের সুব্রত বিশ^াস ও সিরাজগঞ্জের নাঈম হক দ্বিতীয় স্থানে ও ঢাকার ইকরামুল হক সিয়াম সাড়ে পাঁচ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয় স্থানে রয়েছেন। এদিকে, বালিকা বিভাগে সপ্তম রাউন্ডের খেলা শেষে নরসিংদীর নোশিন আঞ্জুম শীর্ষে রয়েছেন। তানজিনা আক্তার তানি সাড়ে পাঁচ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে। পাঁচ পয়েন্ট করে নিয়ে বগুড়ার প্রতিভা তালুকদার, জান্নাতুল ফেরদৌস, কাজী জেরীন আসনিম ও ইশরাত জাহান দিবা তৃতীয় স্থানে রয়েছেন। সপ্তম রাউন্ডের খেলায় সুব্রত অনতা চৌধুরী, নাইম আকিব জাওয়াদকে, সিয়াম মুশফিক ইসলাম জিহানকে পরাজিত করেন। বালিকা বিভাগে নোশিন প্রতিভাকে, জান্নাত তানিকে ও দিবা ওয়ালিজা আহমেদকে পরাজিত করেন। ঝর্না বেগম খুশী আক্তারের সাথে ড্র করেন।

ষষ্ঠ রাউন্ড শেষে ফাহাদ ও তানি শীর্ষে

৩৭তম জাতীয় জুনিয়র দাবা চ্যাম্পিয়নশিপে ওপেন বিভাগে ষষ্ঠ রাউন্ডের খেলা শেষে গতবারের জুনিয়র চ্যাম্পিয়ন পিরোজপুরের ফিদে মাস্টার ফাহাদ রহমান পূর্ণ ৬ পয়েন্ট নিয়ে এককভাবে শীর্ষে রয়েছেন। পাঁচ পয়েন্ট করে নিয়ে ৪জন খেলোয়াড় দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন। এরা হলেন- ময়মনসিংহের সুব্রত বিশ^াস, অনতা চৌধুরী, সিরাজগঞ্জের নাঈম হক ও ঢাকার তাহসিন তাজওয়ার জিয়া। সাড়ে চার পয়েন্ট করে নিয়ে ইকরামুল হক সিয়াম, চট্টগ্রামের আকিব জাওয়াদ ও মুশফিক ইসলাম জিহান তৃতীয় স্থানে রয়েছেন। বালিকা বিভাগে ষষ্ঠ রাউন্ডের খেলা শেষে তানজিনা আক্তার তানি এককভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন। পাঁচ পয়েন্ট করে নিয়ে বগুড়ার প্রতিভা তালুকদার নরসিংদীর নোশিন আঞ্জুম দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন। সাড়ে চার পয়েন্ট নিয়ে ওয়ালিজা আহমেদ তৃতীয় স্থানে রয়েছেন।
মঙ্গলবার জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের দাবা কক্ষে ষষ্ঠ রাউন্ডের খেলায় ওপেন বিভাগে সুব্রত ফিদে মাস্টার ফাহাদের সাথে ভাল অবস্থানে থেকেও পরাজিত হন। অনতা আব্দুল্লাহ আল রাইসনকে, নাঈম ইয়াসির আলী খান ইভানকে, তাহসিন ইনকিয়াদ হাসান অর্নবকে, সিয়াম সর্নাভো চৌধুরীকে, আকিব দিহানকে পরাজিত করেন। জিহান কৌশিকের বিরুদ্ধে ওয়াক ওভার পান।
বালিকা বিভাগে তানি প্রতিভাকে নোশিন খুশী আক্তারকে, ওয়ালিজা জান্নাতুল ফেরদৌসকে, নুশরাত জাহান আলো শ্রাবনী ফাতেমা-তুজ-জোহরাকে, ঝর্না বেগম ইশরাত জাহান নিশিকে, ইশরাত জাহান দিবা সাদিয়া আফরিন সামিয়াকে এবং কাজী জেরিন তাসমিন রাবেয়া আক্তারকে পরাজিত করেন।

জাতীয় জুনিয়র ও বালিকা দাবা চ্যাম্পিয়নশিপ

৩৭তম জাতীয় জুনিয়র দাবা চ্যাম্পিয়নশিপস ওপেন ও বালিকা বিভাগের পঞ্চম রাউন্ডের খেলা শেষে ওপেন বিভাগে গতবারের জুনিয়র চ্যাম্পিয়ন পিরোজপুরের ফিদে মাস্টার ফাহাদ রহমান ও ময়মনসিংহের সুব্রত বিশ^াস পূর্ণ ৫ পয়েন্ট করে নিয়ে যুগ্মভাবে শীর্ষে রয়েছেন। চার পয়েন্ট করে নিয়ে ৭ জন খেলোয়াড় দ্বিতীয় স্থানে আছেন। এরা হলেন- অনতা চৌধুরী, সিরাজগঞ্জের নাঈম হক, তাহসিন তাজওয়ার জিয়া, আব্দুল্লাহ আল রাইসন, সর্নাভো চৌধুরী, রাজশাহীর ইনকিয়াদ হোসেন অর্নব ও ইয়াসির আলী খান ইভান। বালিকা বিভাগে পঞ্চম রাউন্ডের খেলা শেষে বগুড়ার প্রতিভা তালুকদার পূর্ণ ৫ পয়েন্ট নিয়ে এককভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন। সাড়ে চার পয়েন্ট নিয়ে তানজিনা আক্তার তানি দ্বিতীয় স্থানে এবং চার পয়েন্ট করে নিয়ে জান্নাতুল ফেরদৌস, নরসিংদীর নোশিন আঞ্জুম ও নারায়ণগঞ্জের খুশী আক্তার তৃতীয় স্থানে আছেন। সোমবার জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের দাবা ক,ে ওপেন বিভাগে অনতা জাতীয় খেলোয়াড় ক্যান্ডিডেট মাস্টার ইকরামুল হক সিয়ামকে, ফাহাদ নাইমকে, সুব্রত আকিবকে, তাহসিন মাহফুজুর রহমান সাইফকে, রাইসন সাজিদুল হককে, সর্নাভো মনন রেজা নিরকে, অর্নব রিসানকে, ইভান নাফিম আল করীমকে, অনতা চৌধুরীকে ও নাইম তাহমিদুল হককে পরাজিত করেন। আকিব সিয়ামের সাথে ড্র করেন। বালিকা বিভাগে প্রতিভা ওয়ালিজা আহমেদকে, তানি ঝর্না বেগমকে, জান্নাত সাদিয়া আফরিন সামিয়াকে, নোশিন কাজী জেরিন তাসনিমকে ও খুশী সানজিদা সাকিবকে পরাজিত করেন।

জাতীয় জুনিয়র ওপেন ও বালিকা দাবা চ্যাম্পিয়নশিপ

৩৭তম জাতীয় জুনিয়র অনুর্ধ্ব-২০ দাবা চ্যাম্পিয়নশিপস ওপেন ও বালিকা বিভাগের চতুর্থ রাউন্ডের খেলা রোববার জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের পুরাতন ভবনের তৃতীয় তলার দাবা কে অনুষ্ঠিত হয়। ওপেন বিভাগে চতুর্থ রাউন্ডের খেলা শেষে ৩ জন খেলোয়াড় পূর্ণ ৪ পয়েন্ট করে নিয়ে যৌথভাবে শীর্ষে রয়েছেন। এরা হলেন- গতবারের জুনিয়র চ্যাম্পিয়ন পিরোজপুরের ফিদে মাস্টার ফাহাদ রহমান, ময়মনসিংহের সুব্রত বিশ^াস ও সিরাজগঞ্জের নাঈম হক। বালিকা বিভাগে চতুর্থ রাউন্ডের খেলা শেষে বগুড়ার প্রতিভা তালুকদার পূর্ণ ৪ পয়েন্ট করে নিয়ে এককভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে আছেন।
চতুর্থ রাউন্ডের খেলায় ওপেন বিভাগে ফাহাদ অনতা চৌধুরীকে, সুব্রত মনন রেজা নিরকে ও নাইম তাহমিদুল হককে পরাজিত করেন। আকিব সিয়ামের সাথে ড্র করেন। বালিকা বিভাগে প্রতিভা ঝর্নাকে, জেরিন ফাতেমা তুজ-জোহরা শ্রাবনীকে, জান্নাত প্রিতিশাকে, নোশিন শ্রাবন্তী আক্তার জেরিনকে, সামিয়া জান্নাতুল ফেরদৌস রাত্রি লামিয়াকে ও খুশী ইশরাত জাহান দিবাকে পরাজিত করেন। তানি ওয়ালিজার সাথে ড্র করেন।

জাতীয় জুনিয়র অনুর্ধ্ব-২০ দাবা ও বালিকা বিভাগ দাবা

৩৭তম জাতীয় জুনিয়র অনুর্ধ্ব-২০ দাবা চ্যাম্পিয়নশিপ ওপেন ও বালিকা বিভাগের তৃতীয় রাউন্ডের খেলা শনিবার জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের পুরাতন ভবনের তৃতীয় তলার দাবা কে অনুষ্ঠিত হয়। ওপেন বিভাগে তৃতীয় রাউন্ডের খেলা শেষে ৭ জন খেলোয়াড় পূর্ণ ৩ পয়েন্ট করে নিয়ে যৌথভাবে শীর্ষে রয়েছে। এরা হলেন- গতবারের জুনিয়র চ্যাম্পিয়ন পিরোজপুরের ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান, জাতীয় খেলোয়াড় পাবনার ক্যান্ডিডেট মাস্টার ইকরামুল হক সিয়াম, ময়মনসিংহের সুব্রত বিশ^াস, অনতা চৌধুরী, সিরাজগঞ্জের মোঃ নাঈম হক, চট্টগ্রামের আকিব জাওয়াদ ও নারায়ণগঞ্জের মনন রেজা নীর। বালিকা বিভাগে তৃতীয় রাউন্ডের খেলা শেষে ৪ জন খেলোয়াড় পূর্ণ ৩ পয়েন্ট করে নিয়ে যৌথভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে আছেন। এরা হলেন- বগুড়ার প্রতিভা তালুকদার, তানজিনা আক্তার তানি, নারায়ণগঞ্জের মোছাম্মৎ ঝর্না বেগম ও আহমেদ ওয়ালিজা। তৃতীয় রাউন্ডের খেলায় ওপেন বিভাগে সিয়াম আব্দুল্লাহ আল রাইসনকে, ফাহাদ সর্নাভো চৌধুরীকে, সুব্রত সোহেল হাওলাদারকে, নাইম ইনকিয়াদ হোসেন অর্নবকে, আকিব কৌশিক চৌধুরীকে ও নীর তাহসিন তাজওয়ার জিয়াকে পরাজিত করেন। অনতা আব্দুল্লাহ আল মুহিতের বিরুদ্ধে ওয়াক ওভার পান। বালিকা বিভাগে প্রতিভা জান্নাতুল ফেরদৌসকে, ওয়ালিজা ফাতেমা তুজ জোহরা শ্রাবনীকে, তানি নোশিন আঞ্জুমকে ও ঝর্না শ্রাবন্তী আক্তার জেরিনকে পরাজিত করেন।

জাতীয় জুনিয়র অ-২০ দাবা চ্যাম্পিয়নশিপ

৩৭তম জাতীয় জুনিয়র (অনুর্ধ্ব-২০) দাবা চ্যাম্পিয়নশিপস ওপেন ও বালিকা বিভাগের দ্বিতীয় রাউন্ডের খেলা শুক্রবার জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের পুরাতন ভবনের তৃতীয় তলাস্থ দাবা ক্রীড়া কক্ষে অনুষ্ঠিত হয়। ওপেন বিভাগে দ্বিতীয় রাউন্ডের খেলা শেষে ১৫ জন খেলোয়াড় পূর্ণ ২ পয়েন্ট করে নিয়ে মিলিতভাবে শীর্ষে রয়েছেন। এরা হলেনঃ গতবারের জুনিয়র চ্যাম্পিয়ন ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান, জাতীয় খেলোয়াড় পাবনার ক্যান্ডিডেট মাস্টার ইকরামুল হক সিয়াম, ময়মনসিংহের সুব্রত বিশ^াস, অনতা চৌধুরী, সিরাজগঞ্জের মোঃ নাঈম হক, চট্টগ্রামের আকিব জাওয়াদ, তাহসিন তাজওয়ার জিয়া ও সর্নোভা চৌধুরী, আব্দুল্লাহ আল রাইসন, মোঃ সোহেল হাওলাদার, আব্দুল্লাহ আল মুহিত, রাজশাহীর ইনকিয়াদ হোসেন অর্নব, নাটোরের কৌশিক চৌধুরী, নারায়ণগঞ্জের মনন রেজা নীর ও ঠাকুরগাঁও এর মোঃ রিসান। বালিকা বিভাগে দ্বিতীয় রাউন্ডের খেলা শেষে ৮জন খেলোয়াড় পূর্ণ ২ পয়েন্ট করে নিয়ে মিলিতভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন। বগুড়ার প্রতিভা তালুকদার, নারায়ণগঞ্জের ফাতেমা-তুজ-জোহরা শ্রাবনী, তানজিনা আক্তার তানি, নারায়ণগঞ্জের মোছাম্মৎ ঝর্না বেগম, সাব-জুনিয়র বালিকা চ্যাম্পিয়ন নরসিংদীর নোশিন আঞ্জুম, জান্নাতুল ফেরদৌস, আহমেদ ওয়ালিজা ও বরিশালের শ্রাবনী আক্তার জেরিন। দ্বিতীয় রাউন্ডের খেলায় ওপেন বিভাগে সিয়াম আসিফকে, ফাহাদ অমিতকে,সুব্রত ইফতিকে, অনতা আরিফকে, নাইম সুরত আলমকে, আকিব তাইফকে, তাহসিন দিহানকে, রাইসন শাহিদকে, সর্নভো মাহাথিরকে, সোহেল শফিকুলকে, মুহিত সাইফকে, রিসান সুবিনকে, অর্নব আকিফকে, কৌশিক মোহনকে এবং নীর মুহতাদিকে পরাজিত করেন। বালিকা বিভাগে প্রতিভা সামিয়াকে, শ্রাবনী সওরীকে, তানি প্রিতিশাকে, ঝর্না আলোকে, জান্নাত সানজিদাকে, নোশিন রুমাইসাকে, ওয়ালিজা ওয়াদিফাকে ও জেরীন মনিকে পরাজিত করে।

বিশ্বকাপ দাবার বাছাই পর্বে শীর্ষে জিয়া-রাকিব

বিশ্বকাপ দাবার বাছাই এশিয়ান জোনাল ৩.২ চ্যাম্পিয়নশিপে সমান তালেই এগিয়ে চলছেন বাংলাদেশের দুই গ্র্যান্ডমাস্টার জিয়াউর রহমান ও মোল্লা আবদুল্লাহ আল রাকিব। নেপালের কাঠমান্ডুতে চলমান এ প্রতিযোগিতার চতুর্থ রাউন্ড শেষে তাদের সংগ্রহ সাড়ে ৩ পয়েন্ট করে।

মহিলা বিভাগে চতুর্থ রাউন্ডের খেলা শেষে আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার রানী হামিদ পূর্ণ চার পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট তালিকায় এককভাবে শীর্ষে রয়েছেন। ওপেন বিভাগে গ্র্যান্ড মাস্টার নিয়াজ মোরশেদ, সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন ও নেপালের কেশব শ্রেষ্ঠা ৩ পয়েন্ট করে নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে এবং গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন রাজীব, আন্তর্জাতিক মাস্টার আবু সুফিয়ান শাকিল, ফিদে মাস্টার তৈয়বুর রহমান ও ফিদে মাস্টার মেহেদী হাসান পরাগ আড়াই পয়েন্ট করে পেয়েছেন।

মহিলা বিভাগে তিন পয়েন্ট নিয়ে আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার শামীমা আক্তার লিজা দ্বিতীয় স্থানে ও মহিলা ফিদে মাস্টার শারমীন সুলতানা শিরিন ও মহিলা ফিদে মাস্টার নাজরানা খান ইভা আড়াই পয়েন্ট করে নিয়ে তৃতীয় স্থানে রয়েছেন।

বুধবার অনুষ্ঠিত চতুর্থ রাউন্ডের ওপেন বিভাগে জিয়া রাজীবকে, রাকিব পরাগকে, নিয়াজ নেপালের কায়স্থ মদন কৃষ্ণাকে, শাকিল নেপালের বদ্রিলাল নেপালীকে, মাহফুজ হেমাল মানিসকে ও কেশব শ্রীলঙ্কার কালুগামপিতিয়াকে পরাজিত পরাজিত করেন।

মুম্বাই জুনিয়র দাবায় ফাহাদ চতুর্থ

আইআইএফএল ২য় মুম্বাই জুনিয়র আন্তর্জাতিক দাবায় চতুর্থ হয়েছে বাংলাদেশের ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান। একসেস চেস ক্লাবের এ দাবাড়ুসহ ৫ জন ৯ খেলায় সাড়ে ৭ পয়েন্ট করে নিয়ে রানার-আপের জন্য টাই করে। টাইব্রেকিং পদ্ধতিতে ফাহাদ চতুর্থ হয়। মঙ্গলবার নবম রাউন্ডের খেলায় ফাহাদ ভারতের অদিত্য গুহগারকরকে পরাজিত করেন।

প্রতিযোগিতায় ৮ পয়েন্ট নিয়ে ভারতের ভি প্রনভ চ্যাম্পিয়ন এবং সাড়ে ৭ পয়েন্ট নিয়ে ভারতের শেলকে শংকরশাহ রানার-আপ হয়েছে। ফাহাদ চতুর্থ হয়ে পঞ্চাশ হাজার ভারতীয় রুপি পুরস্কার পেয়েছে।

চ্যাম্পিয়ন প্রনভ দেড় লাখ এবং রানার-আপ শংকরশাহ এক লক্ষ দশ হাজার রুপি পেয়েছে। ৯ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত এ প্রতিযোগিতায় ৫ দেশের ১৮৬ জন খেলোয়াড় অংশ নেন।

অপরদিকে একই শহরে অনুষ্ঠানরত আইআইএলএফ ২য় মুম্বাই আন্তর্জাতিক দাবা প্রতিযোগিতা (ওপেন) এর অষ্টম রাউন্ডের খেলা শেষে ফাহাদ ৮ খেলায় ৫ পয়েন্ট পেয়েছেন। সোমবার অনুষ্ঠিত অষ্টম রাউন্ডের খেলায় ফাহাদ ভারতের আউদি আমিয়াকে পরাজিত করে।

এবার ভারতের রিদিতকে হারিয়েছে ফাহাদ

আগের দিন ভারতের আরিয়ান রঞ্জনকে হারিয়েছিল বাংলাদেশের ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান। সোমবার হারিয়েছে ভারতের আরেক দাবাড়ু রিমদিয়া রিদিতকে। এ জয়ে আইআইএফএল ২য় মুম্বাই জুনিয়র আন্তর্জাতিক দাবার অষ্টম রাউন্ডের খেলা শেষে একসেস চেস ক্লাবের এ দাবাড়ু ৮ খেলায় সাড়ে ছয় পয়েন্ট নিয়ে ৬ জনের সাথে মিলিতভাবে তৃতীয় স্থানে রয়েছে।
অপরদিকে একই শহরে অনুষ্ঠানরত আইআইএলএফ ২য় মুম্বাই উম্মুক্ত আন্তর্জাতিক দাবা প্রতিযোগিতার সপ্তম রাউন্ডের খেলা শেষে ফাহাদ ৭ খেলায় ৪ পয়েন্ট পেয়েছে। রোববার অনুষ্ঠিত সপ্তম রাউন্ডের খেলায় ফাহাদ বেলজিয়ামের গ্র্যান্ডমাস্টার মালাখাতকো ভাদিমের কাছে হেরেছে।

ফিদে র‌্যাপিড দাবায় শীর্ষে সাতজন

সাইফ গ্লোবাল স্পোর্টসের পৃষ্ঠপোষকতায় এবং বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের আয়োজনে বিজয় দিবস এসজিএস ফিদে র‌্যাপিড রেটিং দাবা প্রতিযোগিতার খেলা শুক্রবার (২৩ ডিসেম্বর) হতে জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের পুরাতন ভবনের তৃতীয় তলাস্থ দাবা ক্রীড়া কে শুরু হয়।
সাইফ গ্লোবাল স্পোর্টসের চেয়ারম্যান ও বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ-সভাপতি তরফদার মোঃ রহুল আমিন প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এ প্রতিযোগিতার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন।
দেশের তিন গ্র্যান্ড মাস্টার, ২ আন্তর্জাতিক মাস্টারসহ ১৬৮জন খেলোয়াড় অংশগ্রহণ করেন। চতুর্থ রাউন্ডের খেলা শেষে ৭জন খেলোয়াড় পূর্ণ ৪ পয়েন্ট নিয়ে মিলিতভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন।
শীর্ষে আছেন গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব, গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান, আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজ উদ্দিন, আন্তর্জাতিক মাস্টার আবু সুফিয়ান শাকিল, ফিদে মাস্টার মেহেদী হাসান পরাগ, ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন এবং ক্যান্ডিটেড মাস্টার মাহতাবউদ্দিন আহমেদ রবীন।
প্রতিযোগিতার খেলা সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হবে। এদিকে, আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার শামীমা আক্তার লিজা সংযুক্ত আরব আমিরাতের শারজাহ শহরে অনুষ্ঠানরত শারজাহ কাপ আন্তর্জাতিক দাবা চ্যাম্পিয়নশিপ সেভেন ফর ওম্যান এর পঞ্চম রাউন্ডের খেলা শেষে ৫ খেলায় ২ পয়েন্ট অর্জন করেছেন। গত বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত খেলায় লিজা আর্মেনিয়ার বাবাইন আরমাইনের কাছে হেরে যান।

রাসেলকে হারিয়ে দাবার শিরোপার পথে সাইফ

গতবারের চ্যাম্পিয়ন শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবকে হারিয়ে প্রিমিয়ার দাবায় বড় বাধা অতিক্রম করেছে নবাগত সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব। অষ্টম রাউন্ডে খেলা  শেষে সাইফ স্পোটির্ং ক্লাব ১৬ ম্যাচ পয়েন্ট নিয়ে এককভাবে শীর্ষস্থানে রয়েছে।  মঙ্গলবার জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ টাওয়ারে অনুষ্ঠিত অষ্টম রাউন্ডে সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব ৩-১ পয়েন্টে শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবকে পরাজিত করে।

এবারের দাবা লিগের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ এ ম্যাচে সাইফ স্পোর্টিংয়ের চাইনিজ গ্র্যান্ড মাস্টার বু জিয়াংঝি শেখ রাসেল মেমোরিয়ালের ফিদে মাস্টার মেহেদী হাসান পরাগকে ও সাইফ স্পোর্টিংয়ের গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন রাজীব (রেটিং-২৪৬২) শেখ রাসেল মেমোরিয়ালের তাজিকিস্তানের গ্র্যান্ড মাস্টার এমোনাতভ ফারুককে (রেটিং-২৬২০) পরাজিত করেন।

সাইফ স্পোটির্ংয়ের রাশিয়ান গ্র্যান্ড মাস্টার আলেক্সি গোগানোভ শেখ রাসেল মেমোরিয়ালের রাশিয়ান গ্র্যান্ড মাস্টার বরিস গ্রাচেভের সাথে সাইফ স্পোর্টিংয়ের গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব শেখ রাসেল মেমোরিয়ালের গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমানের সাথে ড্র করেন। শিরোপা জয়ের জন্য শেষ খেলায় বাংলাদেশ নৌবাহিনী দাবা দলের বিরুদ্ধে সাইফ স্পোর্টিংয়ের ড্র প্রয়োজন।

চতুর্থ রাউন্ড শেষে শীর্ষে তিন দল

ওয়ালটন গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় ও বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের ব্যবস্থাপনায় চলছে ওয়ালটন প্রিমিয়ার ডিভিশন দাবা লিগ-২০১৬। ইতিমধ্যে লিগের চতুর্থ রাউন্ডের খেলা শেষ হয়েছে। চার রাউন্ড শেষে গতবারের চ্যাম্পিয়ন শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাব, সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব ও বাংলাদেশ নৌবাহিনী ৮ পয়েন্ট করে নিয়ে মিলিতভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছে।
শুক্রবার জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের পুরাতন ভবনের বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের দাবা কক্ষে চতুর্থ রাউন্ডে খেলা অনুষ্ঠিত হয়। চতুর্থ রাউন্ডের খেলায় শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাব ৪-০ পয়েন্টে লিওনাইন চেস ক্লাবকে পরাজিত করে। শেখ রাসেলের পক্ষে ফিদে মাস্টার মেহেদী হাসান পরাগ, রাশিয়ান গ্র্যান্ড মাস্টার বরিস গ্রাচেভ, গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান ও তাজিকিস্তানের গ্র্যান্ড মাস্টার এমোনাটভ ফারুক যথাক্রমে লিওনাইনের ফিদে মাস্টার রেজাউল হক, ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন, মনির হোসেন ও মোহাম্মদ আমিনুল ইসলামকে পরাজিত করেন।
সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের বিরুদ্ধে ৩.৫-০.৫ পয়েন্টে জয়ী হয়। এ রাউন্ডে গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের ফিদে মাস্টার ইউনুস হাসান সাইফ স্পোর্টিংয়ের গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিবের সাথে ড্র করার কৃতিত্ব দেখান। ইউনুস হাসান কালো ঘুঁটি নিয়ে কোলে সিস্টেমের খেলায় রাকিবের বিরুদ্ধে খেলেন, খেলাটি ৫৩ চালের মাথায় ড্র হয়। অন্য তিনটি বোর্ডে সাইফ স্পোর্টিংয়ের চিনের গ্র্যান্ড মাস্টার বু জিয়াংজি, রাশিয়ান গ্র্যান্ড মাস্টার আলেক্সি গোগানভ ও গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন রাজীব যথাক্রমে গোল্ডেন স্পোর্টিংয়ের মোহাম্মদ আমির আলী, তাহসিন তাজওয়ার জিয়া ও মহিলা ফিদে মাস্টার নাজরানা খান ইভাকে পরাজিত করেন।
বাংলাদেশ নৌবাহিনী দাবা দল ৩-১ পয়েন্টে সুলতানা কামাল স্মৃতি পাঠাগারকে পরাজিত করে। বাংলাদেশ নৌবাহিনীর পক্ষে ফিদে মাস্টার খন্দকার আমিনুল ইসলাম ও মোঃ শরীফ হোসেন যথাক্রমে সুলতানা কামালের কুতুবউদ্দিন ও ফয়সাল হোসেনকে পরাজিত করেন। সুলতানা কামালের অভিক সরকার ও আব্দুল্লাহ আল সাইফ যথাক্রমে বাংলাদেশ নৌবাহিনীর আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজ উদ্দিন ও ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ জাভেদের সাথে ড্র করেন।
ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্পোর্টস ক্লাব ২-২ পয়েন্টে তিতাস ক্লাবের সাথে ড্র করে। ফায়ার সার্ভিসের শাহনাজ মোহাম্মদ ফারুক ও গোলাম মোস্তফা ভূঁইয়া যথাক্রমে তিতাস ক্লাবের ক্যান্ডিডেট মাস্টার ইকরামুল হক সিয়াম ও ফিদে মাস্টার মোঃ সাইফ উদ্দীনকে পরাজিত করেন। তিতাস ক্লাবের ক্যান্ডিডেট মাস্টার সোহেল চৌধুরী ও ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ আব্দুল মালেক যথাক্রমে ফায়ার সার্ভিসের মহিলা ফিদে মাস্টার শারমীন সুলতানা শিরিন ও বকুল বড়–য়াকে পরাজিত করেন।
সোনালী ব্যাংক ক্রীড়া ও বিনোদন ক্লাব ৩.৫-০.৫ পয়েন্টে মাসুদ স্পোটর্স চেস ক্লাবকে পরাজিত করে। সোনালী ব্যাংকের খন্দকার কায়েস হাসান, আব্দুল মোমিন ও মতিউর রহমান মামুন যথাক্রমে মাসুদ স্পোর্টসের জাকির হোসেন শিপলু, শামসুল কবীর চৌধুরী ও সুদীপ রঞ্জন মন্ডলকে পরাজিত করেন। মাসুদ স্পোর্টসের রাকিব আহমেদ সালেহ সোনলী ব্যাংকের এ,এস,এম নাসেরের সাথে ড্র করেন।

প্রিমিয়ার দাবা লিগ উদ্বোধন

প্রিমিয়ার ডিভিশন দাবা লিগ উদ্বোধন হয়েছে সোমবার। সকালে দাবা ফেডারেশনে লিগ উদ্বোধন করেন ওয়ালটন গ্রুপের স্পোর্টস ও ওয়েলফেয়ার বিভাগের প্রধান এফ এম ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন)। উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহসভাপতি কে এম শহিদউল্যা, লিগ কমিটির চেয়ারম্যান গাজী সাইফুল তারেক, সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ শাহাবুদ্দিন শামীম, যুগ্ম সম্পাদক মাসুদুর রহমান মল্লিক দিপু ও কার্যনির্বাহী সদস্য জাকির আহমেদ।

লিগ উদ্বোধন হলেও খেলা শুরু হবে মঙ্গলবার। ১২ দলের মধ্যে অংশ নিচ্ছে ১০টি-সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব, মাসুদ স্পোর্টস চেস ক্লাব, প্রিতম প্রিজম চেস ক্লাব, সোনালী ব্যাংক ক্রীড়া ও বিনোদন ক্লাব, গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাব, সুলতানা কামাল স্মৃতি পাঠাগার, লিওনাইন চেস ক্লাব, তিতাস ক্লাব, শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাব  বাংলাদেশ নৌবাহিনী দাবা দল, এবং ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স  স্পোর্টস ক্লাব।

দেশের গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান রাশিয়ার গ্র্যান্ড মাস্টার বরিশ ক্রচেভ ও তাজিকিস্তানের গ্র্যান্ড মাস্টার আমোনেতভ ফারুক, আন্তর্জাতিক মাস্টার আবু সুফিয়ান শাকিল ও ফিদে মাস্টার মেহেদী হাসান পরাগ শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবে এবং চিনের গ্র্যান্ড মাস্টার বু জিয়াংঝি, রাশিয়ার গ্র্যান্ড মাস্টার গোগানভ, দেশের গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব, গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন রাজীব গ্র্যান্ড মাস্টার নিয়াজ মোরশেদ ও ফিদে মাস্টার মো. তৈয়বুর রহমান সাইফ স্পোর্টিং ক্লাবে খেলবেন।

প্রথম বিভাগ দাবা লিগ শুরু

মার্সেল প্রথম বিভাগ দাবা লিগ বুধবার দাবা কক্ষে শুরু হয়েছে। লিগে ১২টি দলের অংশ নেয়ার কথা থাকলেও শেষ পর্যন্ত ৯টি দল অংশ নিচ্ছে। প্রথম রাউন্ডে একসেস চেস ক্লাব ৪-০ পয়েন্টে দেবদাস বিশ্বাস স্মৃতি সংসদকে, মীর চেস ক্লাব ৩-১ পয়েন্টে অগ্রণী ব্যাংক দাবা দলকে, হাসান মেমোরিয়াল চেস ক্লাব ৩.৫-০.৫ পয়েন্টে মহাখালী প্রদীপ সংঘকে এবং শেখ রাসেল চেস ক্লাব ৩-১ পয়েন্টে ক্যাসপারভ চেস ক্লাবকে পরাজিত করে শুভ সূচনা করেছে।

প্রথম রাউন্ডে একসেস চেস ক্লাবের ভারতীয় খেলোয়াড় শ্রীজিৎ পাল দেবদাস বিশ্বাস খন্দকার নজরে মাওলাকে, ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান মো. সালামত উল্লাহকে, ভারতীয় খেলোয়াড় অনুসতোপ বিশ্বাস এবি বাপ্পীকে পরাজিত করেন এবং একসেস ক্লাবের সাইফুল ইসলাম চৌধুরী সব্যসাচী মন্ডলের বিরুদ্ধে ওয়াক ওভার পান।

মীর চেস ক্লাবের করীম এম শাহিন, রেজাউল ইসলাম বাবু ও শেখ মো. খায়রুল ইসলাম অগ্রণী ব্যাংকের যথাক্রমে  ওবায়দুল ইসলাম শাহিন, মো. আলমগীর হোসেন ও মুজিবুর রহমানকে পরাজিত করেন। অগ্রণী ব্যাংকের মো. সিরাজুল কবীর মীর চেস ক্লাবের বাদল হাওলাদারকে পরাজিত করেন।

সমান তালে এগিয়ে চলছেন রাকিব-রাজীব

ওমিকন ৪২তম জাতীয় ‘এ’ দাবা চ্যাম্পিয়নশিপে সমান তালে এগিয়ে চলছেন শিরোপা প্রত্যাশি দুই গ্র্যান্ডমাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব ও এনামুল হোসেন রাজীব। দশম রাউন্ড শেষে বাংলাদেশ নৌবাহিনীর দুই গ্র্যান্ডমাস্টার সাড়ে ৮ পয়েন্ট করে নিয়ে যুগ্মভাবে শীর্ষে রয়েছেন।

বাংলাদেশ নৌবাহিনীর আরেক গ্র্যান্ডমাস্টার জিয়াউর রহমান ৭ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন। সাড়ে ৬ পয়েন্ট করে নিয়ে গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের আন্তর্জাতিক মাস্টার আবু সুফিয়ান শাকিল ও বাংলাদেশ নৌবাহিনীর ফিদে মাস্টার মো. তৈয়বুর রহমান তৃতীয় স্থানে রয়েছেন।

শুক্রবার এনএসসি টাওয়ার অডিটোরিয়াম লাউঞ্জে দশম রাউন্ডে রাকিব নিজ দলের ফিদে মাস্টার সেখ নাসির আহমেদকে, রাজীব শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের ফিদে মাস্টার মেহেদী হাসান পরাগকে, শাকিল শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের গ্র্যান্ডমাস্টার নিয়াজ মোরশেদকে ও গতবারের চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ নৌবাহিনীর আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজ উদ্দিন তিতাস ক্লাবের ফিদে মাস্টার রেজাউল হককে পরাজিত করেন।

তৈয়বুর গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়ার সাথে এবং জনতা ব্যাংক অফিসার্স স্পোর্টস অ্যান্ড ওয়েলফেয়ার সোসাইটির ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন বাংলাদেশ নৌবাহিনীর ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ জাভেদের সাথে ড্র করেন।

এশিয়ান জুনিয়র দাবায় ১৩তম বাংলাদেশ

চীনের জিয়াঝিং শহরে অনুষ্ঠিত অনূর্ধ্ব-১৪ এশিয়ান নেশন্স কাপ দাবায় ১৩তম হয়েছে বাংলাদেশ। বাংলাদেশ ৯ ম্যাচে ৩টি জয় পেয়েছে। অর্জন করেছে ৬ পয়েন্ট। এই প্রথম বাংলাদেশ এ প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছে।

১৭ পয়েন্ট পেয়ে ইরান টুর্নামেন্টে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন। ১১ দেশের ১৬টি দল প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে। দেশগুলো হচ্ছে- চীন, সিঙ্গাপুর, মালদ্বীপ, ইরান, মালয়েশিয়া, মঙ্গোলিয়া, শ্রীলংকা, ইরাক, বাংলাদেশ, হংকং এবং ম্যাকাও।

নেশন্স কাপে ৭ সদস্যের বাংলাদেশ দল অংশগ্রহণ করে। হেড অব ডেলিগেট ও অধিনায়ক ছিলেন ন্যাশনাল ইনস্ট্রাক্টর মাহমুদা হক চৌধুরী মলি।

খেলোয়াড়রা হলেন- মো. নাঈম হক, অমিত বিক্রম রায়, নোশিন আঞ্জম, সাদনান হাসান দিহান ও দানিয়েল মুরাদ। শুক্রবার সকালে শেষ রাউন্ডে বাংলাদেশ হেরেছে সিঙ্গাপুর ‘বি’ দলের কাছে।

জুনিয়র ন্যাশন্স দাবায় বাংলাদেশের জয়

চিনের জিয়াঝিং শহরে অনুষ্ঠানরত এশিয়ান ন্যাশন্স কাপ অনুর্ধ্ব-১৪ দলগত দাবা চ্যাম্পিয়নশিপের ষষ্ঠ রাউন্ডের খেলা শেষে বাংলাদেশ ৬ পয়েন্ট অর্জন করেছেন।

আজ (বুধবার) সকালে অনুষ্ঠিত পঞ্চম রাউন্ডে খেলায় বাংলাদেশ ৪-০ পয়েন্টে মালদ্বীপ বি দলকে এবং বিকালে অনুষ্ঠিত ষষ্ঠ রাউন্ডে  ৩-১ পয়েন্টে ম্যাকাওকে পরাজিত করে।

প্রথম  তিনটি ম্যাচ ভাল খেলেও অনভিজ্ঞতার কারনে জয়ের দেখা পায়নি ক্ষুদে দাবাড়ুরা। মালদ্বীপের সঙ্গে একচেটিয়া আধিপত্য বিস্তার করে বাংলাদেশ চারটি বোর্ডেই জয় তুলে নেয়।

মালদ্বীপ `বি’ দলের বিপক্ষে খেলায় মো. নাইম হক রিলওয়ান নুহাকে, অমিত বিক্রম রায় লুহা আলী নাসেরকে, সাদনান হাসান দিহান ইব্রাহিম মুজাহকে এবং দানিয়েল মুরাদ নওশেদ মোহাম্মদকে পরাজিত করেন।

দ্বিতীয় বিভাগ চ্যাম্পিয়ন সোনারগাঁও চেস ক্লাব

ওয়ালটন দ্বিতীয় বিভাগ দাবা লিগে ১৩ পয়েন্ট নিয়ে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হয়েছে সোনারগাঁও চেস ক্লাব। ইসফট এরিনা ১২ পয়েন্ট নিয়ে রানার্স-আপ হয়েছে।

১০ পয়েন্ট করে পাওয়ার পর টাইব্রেকিং পদ্ধতিতে জনতা ব্যাংক অফিসার্স ওয়েলফেয়ার সোসাইটি তৃতীয়, উত্তরা সেন্ট্রাল চেস ক্লাব চতুর্থ ও জিআইআইটি চেস একাডেমি পঞ্চম স্থান লাভ করে।

৯ পয়েন্ট করে নিয়ে নিউ নেশন চেস ক্লাব ষষ্ঠ, মর্নিং গ্লোরী চেস ক্লাব সপ্তম ও শান্তিনগর ক্লাব অষ্টম স্থান লাভ করে।

আজ (বুধবার) অনুষ্ঠিত সপ্তম ও শেষ রাউন্ডের খেলায় সোনারগাঁও ২-২ পয়েন্টে  উত্তরা সেন্ট্রাল চেসের সাথে ড্র করে। ইসফট এরিনা ৩-১ পয়েন্টে মর্নিং গ্লোরী চেস ক্লাবকে এবং জনতা ব্যাংক অফিসার্স ওয়েলফেয়ার ৩.৫-০.৫ পয়েন্টে রয়েল ইলেকট্রনিক্সকে পরাজিত করে।

চ্যাম্পিয়ন সোনারগাঁও দলের খেলোয়াড়রা হচ্ছেন- শাহ আলম রোপান, মোহাম্মদ মানিক, ফরহাদুর ইমাম, মোহাম্মদ এনায়েত হোসেন, সুব্রত বিশ্বাস ও মিজানুর রহমান। চ্যাম্পিয়ন সোনারগাঁ চেস ক্লাব ও রানার্সআপ ইসফট এরিনা আগামী বছর প্রথম বিভাগ দাবা লিগে অংশগ্রহণের সুযোগ পেয়েছে।

দ্বিতীয় বিভাগ দাবা শুরু বৃহস্পতিবার

ওয়ালটন দ্বিতীয় বিভাগ দাবা লিগ শুরু হবে আগামী ৩ অক্টোবর বৃহস্পতিবার। এ লিগ সকল দলের  অংশগ্রহণ উন্মুক্ত। আগ্রহী  দলগুলো  বুধবারের মধ্যে  এন্ট্রি করতে পারবে। দ্বিতীয় বিভাগ দাবা লিগ একটি দলগত  ইভেন্টে এবং আন্তর্জাতিক রেটিং  প্রতিযোগিতা।

আজ  (সোমবার) বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের হল রুমে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে লিগের বিস্তারিত তুলে ধরেন দাবা ফেডারেশনের কর্মকর্তারা। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ সভাপতি ও লিগ কমিটির চেয়ারম্যান গাজী সাইফুল তারেক,  ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ শাহাবুদ্দিন শামীম, পৃষ্ঠপোষক ওয়ালটন গ্রুপের স্পোর্টস অ্যান্ড ওয়েলফেয়ার বিভাগের প্রধান এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন),  দাবা ফেডারেশনের যুগ্ম সম্পাদক মাসুদুর রহমান মল্লিক দিপু ও আন্তর্জাতিক দাবা বিচারক মো. হারুন অর রশিদ।

সুইস-লিগ পদ্ধতির এ লিগে প্রতি দলে ৪ জন নিয়মিত ও ২ জন অতিরিক্ত খেলোয়াড় থাকবেন।  শীর্ষ ২টি দল আগামী বছর প্রথম বিভাগ দাবা লিগে অংশ নেয়ার সুযোগ পাবে। চ্যাম্পিয়ন দলকে ২৫ হাজার টাকা, রানার্স-আপ দলকে ১৫ হাজার টাকা এবং তৃতীয় স্থান অর্জনকারী দলকে ১০ হাজার টাকা অর্থ পুরস্কার দেয়া হবে।

জাতীয় ‘বি’ দাবার শীর্ষে পরাগ

সাইফ পাওয়ারটেক জাতীয় ‘বি’ দাবা চ্যাম্পিয়নশিপের নবম রাউন্ড শেষে সাড়ে ৭ পয়েন্ট নিয়ে এককভাবে শীর্ষে আছেন শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের ফিদে মাস্টার মেহেদী হাসান পরাগ।

৭ পয়েন্ট করে নিয়ে যৌথভাবে দ্বিতীয় স্থানে আছেন-গতবারের চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ নৌবাহিনীর আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজউদ্দিন, ফিদে মাস্টার সেখ নাসির আহমেদ, ফিদে মাস্টার খন্দকার আমিনুল ইসলাম, ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ জাভেদ, মো. শরীফ হোসেন, শেখ রাসেল চেস ক্লাবের ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন ও তিতাস ক্লাবের ফিদে মাস্টার রেজাউল হক।

আজ (শুক্রবার) অনুষ্ঠিত নবম রাউন্ডের খেলায় পরাগ নিজ দলের ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমানকে. ফিদে মাস্টার জাভেদ গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের আন্তর্জাতিক মাস্টার আবু সুফিয়ান শাকিলকে, ফিদে মাস্টার নাসির নিজ দলের এস,এম, স্মরনকে পরাজিত করেন।

দাবা অলিম্পিয়াডে বাংলাদেশের দারুণ শুরু

আজারবাইজানের বাকু শহরে ৪২তম বিশ্ব দাবা অলিম্পিয়াড়ের খেলা শুরু হয়েছে। সেখানে অনুষ্ঠিত প্রথম রাউন্ডের খেলায় ওপেন ও মহিলা উভয় বিভাগেই বাংলাদেশ জয়ী হয়ে শুভ সূচনা করেছে।

ওপেন বিভাগে বাংলাদেশ ৪-০ পয়েন্টে সান ম্যারিনোকে এবং মহিলা বিভাগে বাংলাদেশ মহিলা দল ৪-০ পয়েন্টে সুদানকে পরাজিত করে।

ওপেন বিভাগে বাংলাদেশ দলের পক্ষে গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন, গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব, আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজ উদ্দিন এবং গ্র্যান্ড মাস্টার নিয়াজ মোরশেদ যথাক্রমে সান ম্যারিনোর পল রোসিনি, বেরারদি গিয়ানকার্লো, ম্যাক্কাপানি মাসিমিলিয়ানো এবং ভোলপিনারি ড্যানিলোকে পরাজিত করেন।

এদিকে, মহিলা বিভাগে আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার শামীমা আক্তার লিজা, মহিলা ফিদে মাস্টার শারমীন সুলতানা শিরিন, মহিলা ফিদে মাস্টার নাজরানা খান ইভা এবং আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার রানী হামিদ যথাক্রমে সুদানের নাজওয়া মোহাম্মদ আহমেদ, রাউয়ান আইহাব, ইবতিহাল মোহাম্মদ ও জয়নাব মুস্তবা মনসুরকে পরাজিত করেন।

ওপেন বিভাগে ১৭৫টি দেশ ও ৩টি সংগঠনের ১৮০টি দল এবং মহিলা বিভাগে ১৩৬টি দেশ ও ২টি সংগঠনসহ ১৪০টি দল অংশ নিচ্ছে। দ্বিতীয় রাউন্ডের খেলায় ওপেন বিভাগে বাংলাদেশ দল বিশ্ব দাবা চ্যাম্পিয়নের দল নরওয়ের সাথে এবং মহিলা বিভাগে মহিলা দল ভিয়েতনামের সাথে খেলবে।

ওপেন বিভাগে ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ তৈয়বুর রহমান ও মহিলা দলের ক্যান্ডিডেট মাস্টার মাহমুদা হক চৌধুরী মলি অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করছেন।

ক্ষুদে দাবাড়ু ফাহাদকে সংবর্ধনা

ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমানকে সংবর্ধনা দিয়েছে শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাব। সংযুক্ত আরব আমিরাতে ১৪তম দুবাই আন্তর্জাতিক জুনিয়র্স দাবায় অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হওয়ায় তাকে সংবর্ধনা দেয়া হয়েছে। আজ (শনিবার) ক্লাবের পক্ষ থেকে দেয়া সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে দুই কৃতী খেলোয়াড় ফিদে মাস্টার মেহেদি হাসান পরাগ এবং ক্যান্ডিডেট মাস্টার সোহেল চৌধুরীকেও পুরস্কৃত করা হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ পুলিশের ক্রিমিনাল ইনভেস্টিগেশন ডিপার্টমেন্টের পুলিশ সুপার শেখ রেজাউল হায়দার এবং বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ ব্রিজ ফেডারেশনের সভাপতি মুশফিকুর রহমান মোহন।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের সভাপতি লায়ন মো. মজিবুর রহমান হাওলাদার। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ক্যাপ্টেন রাফসান জানি, তিন সহ-সভাপতি মো. মোকাদ্দেছ হোসাইন, মো. জাহাঙ্গীর ইসলাম, এসএম মনিরুজ্জামান মনি, দুই যুগ্ম সম্পাদক মোরসালিন আহমেদ ও শামীম খান, কোষাধ্যক্ষ মো. শাহিন হোসেন ও গ্র্যান্ডমাস্টার এনামুল হোসেন রাজিব।

দুবাই জুনিয়র দাবায় চ্যাম্পিয়ন ফাহাদ

আরেকটি বিজয়ের মুকুট যোগ হলো বাংলাদেশের প্রথম ক্ষুদে ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমানের ঝুঁড়িতে। এবার দুবাইয়ে ১৪তম জুনিয়র দাবা প্রতিযোগিতায় অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন বাংলাদেশের এই ফিদে মাস্টার।

মাহিন্দ্রা কমভিভার পৃষ্ঠপোষকতায়  সাত জয় ও দুই ড্র নিয়ে টুর্নামেন্ট শেষ করেন বাংলাদেশের এই সর্বকনিষ্ঠ ফিদে মাস্টার। টুর্নামেন্টে ৯ রাউন্ডে ফাহাদ ৮ পয়েন্ট সংগ্রহ করেন। আর রানার্স আপ হওয়া শ্রিবাতশেভের পয়েন্ট সাড়ে ৭।

দুবাই চেস অ্যান্ড কালচার ক্লাবে ১৯ জুলাই থেকে শুরু হয় এ টুর্নামেন্ট। ১০ হাজার ডলার মূল্যমানের এ টুর্নামেন্টে ১২টি দেশের মোট ১১০ জন খেলোয়াড় অংশগ্রহণ করে। চ্যাম্পিয়ন হিসেবে ফাহাদ পাবে ২ হাজার মার্কিন ডলার।

আন্তর্জাতিক রেটিং দাবায় অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন রাজীব

সাইফ পাওয়ারটেক আন্তর্জাতিক রেটিং দাবা প্রতিযোগিতায় অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন রাজীব। ৯ খেলায় ৮.৫ পয়েন্ট পেয়ে তিনি শিরোপা জেতেন। আর বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব ৮ পয়েন্ট পেয়ে হন রানার-আপ।

টুর্নামেন্টে সাড়ে সাত পয়েন্ট নিয়ে বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান তৃতীয় এবং হাসান মেমোরিয়াল চেস ক্লাবের গোলাম মোস্তফা ভূঁইয়া চতুর্থ স্থান লাভ করেন।

প্রতিযোগতার পুরস্কার বিতরণী আজ মঙ্গলবার বিকালে জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের এনএসসি টাওয়ারের অডিটোরিয়াম লাউঞ্জে অনুষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সভাপতি এবং র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটেলিয়ানের মহাপরিচালক বেনজীর আহমেদ প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করেন।

চ্যাম্পিয়ন রাজীব এক লক্ষ টাকা, রানার-আপ রাকিব পঁচাত্তর হাজার টাকা, জিয়া ও মোস্তাফা পঁয়ত্রিশ হাজার টাকা করে অর্থ পুরস্কার লাভ করেন। বিভিন্ন ক্যাটাগরিসহ মোট ৬৫জন খেলোয়াড় এই ইভেন্টে মোট পাঁচ লক্ষ টাকার অর্থ পুরস্কার লাভ করেন। ৯ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতির এ ইভেন্টে রেকর্ড সংখ্যক ২১৪জন খেলোয়াড় অংশ নেন।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পৃষ্ঠপোষক কোম্পানী সাইফ পাওয়ারটেকের পরিচালক তরফদার মো. রুহুল সাইফ। এছাড়া উপস্থিত ছিলেন টুর্নামেন্ট কমিটির চেয়ারম্যান কে এম শহিদউল্যা, দাবা ফেডারেশনের সহ-সভাপতি গাজী সাইফুল তারেক, সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ শাহাব উদ্দিন শামীম ও টুর্নামেন্ট কমিটির সচিব মো. মনিরুজ্জামান পলাশ।

রেকর্ড সংখ্যক খেলোয়াড় নিয়ে শুরু আন্তর্জাতিক রেটিং দাবা

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের আয়োজনে আন্তর্জাতিক রেটিং দাবা প্রতিযোগিতার খেলা শুক্রবার (২৪ জুন) হতে জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের এনএসসি টাওয়ার অডিটোরিয়াম লাউঞ্জ ও বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের ক্রীড়া কক্ষে শুরু হয়েছে।

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ-সভাপতি ও সাইফ পাওয়ারটেক লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক জনাব তরফদার মোঃ রুহুল আমিন প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এ প্রতিযোগিতার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন। টুর্নামেন্ট কমিটির চেয়ারম্যান ও বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ সভাপতি কে এম শহিদউল্যার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ-সভাপতি গাজী সাইফুল তারেক, সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ শাহাবুদ্দিন শামীম, যুগ্ম সম্পাদক মোঃ মনিরুজ্জামান পলাশ ও ফিদে মাস্টার মোঃ তৈয়বুর রহমান বক্তব্য রাখেন।

এছাড়া উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের যুগ্ম সম্পাদক মাসুদুর রহমান মল্লিক দিপু, কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও টুর্নামেন্ট কমিটির সদস্য মোঃ আলাউদ্দিন সাজু, কার্যনির্বাহী সদস্য নিজামুল ইসলাম খান ও মোঃ রাশেদ হোসেন ফারুক এবং আন্তর্জাতিক বিচারক মোঃ হারুন অর রশিদ।

দেশের তিন গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান, মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব ও এনামুল হোসেন রাজীব, ২ আন্তর্জাতিক মাস্টার জাতীয় চ্যাম্পিয়ন মোহাম্মদ মিনহাজউদ্দিন. আবু সুফিয়ান শাকিল, ৮ ফিদে মাস্টার মোঃ তৈয়বুর রহমান, মেহেদী হাসান পরাগ, ফিদে মাস্টার খন্দকার আমিনুল ইসলাম, ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন, ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ আব্দুল মালেক, ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ জাভেদ, ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান, ফিদে মাস্টার মোঃ সাইফ উদ্দীন, মহিলা ফিদে মাস্টার জাকিয়া সুলতানা, মহিলা ফিদে মাস্টার নাজরানা খান ইভা, ভারতের রেটেড সর্বজিৎ পল ও সুদর্শন মিত্রসহ রেকর্ড সংখ্যক ২১২জন খেলোয়াড় এ ইভেন্টে অংশগ্রহণ করছেন।

দেশে অনুষ্ঠিত কোন ওপেন বা আন্তর্জাতিক রেটিং দাবা ইভেন্টে অংশগ্রহণকারী খেলোয়াড়ের সংখ্যা এটিই সর্বোচ্চ। প্রতিযোগিতার খেলা ৯ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হচ্ছে। এ প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের নগদ মোট পাঁচ লক্ষ টাকার অর্থ পুরস্কার দেয়া হবে। দেশে অনুষ্ঠিত কোনো দাবা ইভেন্টের এটিই সর্বোচ্চ অর্থ পুরস্কার।

উজবেকিস্তানে মিনহাজ জিতলেও হেরেছেন শিরিন

উজবেকিস্তানের তাশখন্দে অনুষ্ঠানরত এশিয়ান কন্টিনেন্টাল দাবা চ্যাম্পিয়নশিপের ওপেন বিভাগে জয় পেয়েছেন আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজ। একই দিন হেরেছেন মহিলা ফিদে মাস্টার শারমীন সুলতানা শিরিন।

অষ্টম রাউন্ডের খেলা শেষে মিনহাজ ৮ খেলায় ৫ পয়েন্ট এবং মহিলা বিভাগে মহিলা ফিদে মাস্টার শারমীন সুলতানা শিরিন ৮ খেলায় ২.৫ পয়েন্ট অর্জন করেছেন।

অষ্টম রাউন্ডের খেলায় ওপেন বিভাগে মিনহাজ চিনের ফিদে মাস্টার ঝি ইউয়িকে পরাজিত করেন। চতুর্থ জয়ে ২৩তম স্থানে আছেন এই আন্তর্জাতিক মাস্টার।

মহিলা বিভাগে শিরিন স্বাগতিক উজবেকিস্তানের শাপারোভা সিতোরার কাছে হেরে যান। ৩০তম স্থানে আছেন বাংলাদেশের এই মহিলা ফিদে মাস্টার।

পূর্ণ প্যানেলে জয়ী সমমনা পরিষদ

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের নির্বাচনে পূর্ণ প্যানেলে জয়ী হয়েছে সমমনা পরিষদ। আজ মঙ্গলবার জাতীয় ক্রীড়া পরিষদে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে সাহাবুদ্দিন শামিমের নেতৃত্বাধীন সমমনা পরিষদের সবাই নিজ নিজ পদে জয়ী হন। তাদের প্রতিপক্ষ সম্মিলিত পরিষদ নির্বাচন বর্জন করাতেই এমন বিজয়!

দাবা ফেডারেশনের নতুন কার্যনির্বাহী কমিটি

সাধারণ সম্পাদক- সাহাবুদ্দিন শামিম; ৭৬ ভোট
সহ-সভাপতি- গাজী সাইফুল তারেক;৭৯ ভোট, কেএম শহিদুল্লাহ;৭৭ ভোট, তরফদার মো. রুহল আমিন; ৭৭ ভোট, চৌধুরী নাফিজ শরাফত; ৭৫ ভোট

যুগ্ম সম্পাদক-মনিরুজ্জামান পলাশ ও মাসুদুর রহমান মল্লিক, উভয়েই পেয়েছেন ৭৫ ভোট।

কার্যনির্বাহী সদস্য-কামরুজ্জামান ভূঁইয়া, মেহদি হাসান, নিজামুল হক খান, লিয়াকত আলী খান, কাজী জাকেরুল মওলা, মো. রাশেদ ফারুক, বেলাল হোসেন, আনজুমান আরা আকাসির, রফিকুল ইসলাম, বাহারউদ্দিন বাহার, জাকির আহমেদ, সালাউদ্দিন সাজু, দেবাশিষ দে, শেখ মনিরুল ইসলাম ও ড. মনিরুল ইসলাম।

ভারতে ড্র করলেও তৃতীয় স্থানে জিয়া

ভারতের উড়িষ্যা রাজ্যের ভূবনেশ্বরে অনুষ্ঠানরত নবম কিট আন্তর্জাতিক দাবা ফেস্টিভালে বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান মিলিতভাবে তৃতীয় স্থানে রয়েছেন।
এলিট ক্যাটাগরির ষষ্ঠ রাউন্ডের খেলা শেষে জিয়াউর রহমান সাড়ে চার পয়েন্ট নিয়ে ১৪ জনের সাথে মিলিতভাবে তৃতীয় স্থানে রয়েছেন। বাংলাদেশ নৌবাহিনীর ফিদে মাস্টার খন্দকার আমিনুল ইসলাম ও শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং কাবের ক্যান্ডিটেড মাস্টার সোহেল চৌধুরী সাড়ে তিন পয়েন্ট ও বাংলাদেশ নৌবাহিনীর ফিদে মাস্টার সেখ নাসির আহমেদ তিন পয়েন্ট অর্জন করেছেন।
ষষ্ঠ রাউন্ডের খেলায় আমিনুল শ্রীলঙ্কার গালাপাথি চিন্তিকা অনিরদ্ধকে পরাজিত করেন। জিয়া ভারতের এরিগাইসি অর্জুনের সাথে ও সোহেল ভারতের ভাট জালপানের সাথে ড্র করেন। নাসির ভারতের প্রাজেসের কাছে হেরে যান।

দাবাকে এগিয়ে নিতে চায় ‘সমমনা দাবা পরিষদ’

আগামীতে দাবা খেলাকে আন্তর্জাতিক এবং জাতীয় উভয় অঙ্গনেই আরও এগিয়ে নেওয়ার দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেছে ‘সমমনা দাবা পরিষদ’। বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের আসন্ন নির্বাচন উপলে ‘সমমনা দাবা পরিষদ’-এর এক মত বিনিয়ম সভায় তারা এ প্রতিশ্রুতি দেন।
দাবা খেলার জন্য একটি স্থায়ী জায়গা এবং বিভিন্ন সিদ্ধান্তে সিনিয়র খেলোয়াড়দের সম্পৃক্ত করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছন পরিষদের সদস্যরা। রাজধানীর একটি পাঁচ তারা হেটেলে আয়োজিত এ সভায় সংগঠকরা বলেন, আগামীতে স্কুল পর্যায় দাবা, বয়সভিত্তিক দাবা প্রতিযোগিতা, গ্র্যান্ড মাস্টার ও আন্তর্জাতিক মাস্টার দাবা প্রতিযোগিতা ধারাবাহিকভাবে আয়োজন করা হবে।
অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের পরিচালক এবং শেখ রাসেল জাতীয় শিশু কিশোর পরিষদের সভাপতি মো. রকিবুর রহমান। অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের প্রাক্তন সহ-সভাপতি সৈয়দ শাহাব উদ্দিন শামীম, প্রাক্তন সহ-সভাপতি কে এম শহিদউল্যা, সাইফ পাওয়ারটেক লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক তরফদার মো. রুহুল আমিন, লাইফ ইনসিওরেন্স কোম্পানি বাংলাদেশের পরিচালক চৌধুরী নাফিস শারাফত, বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের প্রাক্তন সাধারণ সম্পাদক গাজী সাইফুল তারেক, ওমিকন গ্রুপের সিইও এবং ভাইস চেয়ারম্যান ইঞ্জিনিয়ার মেহেদী হাসান, রূপায়ন গ্রুপের পরিচালক মাহির আলী খান রাতুল, বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের প্রাক্তন সাধারণ সম্পাদক ও ডেইলি সানের সম্পাদক ফিদে মাস্টার জামিলুর রহমান, গ্র্যান্ড মাস্টার নিয়াজ মোরশেদ, গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব, গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন রাজীব, আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার রানী হামিদ প্রমুখ।

দাবায় নির্বাচনি উত্তাপ

ক্রীড়াঙ্গন এত দিন বাফুফের নির্বাচন নিয়ে বেশ সরগরম ছিল। বাফুফে নির্বাচন শেষে এবার উত্তপ্ত দাবা ফেডারেশন। ইতোমধ্যে গত ৪ মে জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ দাবা ফেডারেশনের নির্বাচনের খসড়া ভোটার তালিকা প্রকাশ করেছে। খসড়া তালিকায় ১১৩ জন কাউন্সিলর রয়েছেন। ফেডারেশনের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে ৩১ মে।
তবে এই নির্বাচনকে ঘিরে দাবা ফেডারেশনে দুই গ্রুপের সৃষ্টি হয়েছে। লায়ন মো. মুজিবর রহমান, মুশফিকুর রহমান মোহন, মোকাদ্দেছ হোসেন, জাহাঙ্গীর হোসেন এরা রয়েছেন এক গ্রুপে। আর অন্য গ্রুপে রয়েছেন সাধারণ সম্পাদক গাজী সাইফুল তারেক, কে এম শহিদউল্লাহ, সৈয়দ শাহবুদ্দিন শামীম।
নির্বাচনকে সামনে রেখে সোমবার লায়ন মো. মুজিবর রহমানের গ্রুপ দাবা ফেডারেশনের নানা অনিয়ম ও কাউন্সিলরশিপের ত্রুটি নিয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছেন। সেখানে দাবা ফেডারেশনের সাবেক নির্বাহী সদস্য মুজিবর রহমান বলেন,‘ একটি নির্বাচিত কার্যনির্বাহী কমিটি চার বছর কাটিয়ে দিল অথচ দাবার গঠণতন্ত্রে নানান সমস্যা থাকলেও তা যুগোপযুগী করার জন্য এক/দুটি এজিএম করা তাদের পক্ষে সম্ভব হলো না। আমরা দাবা ফেডারেশনের কয়েকজন কর্মকর্তা দাবা ফেডারেশনের সভাপতির সঙ্গে আলোচনা করে সাধারণ সম্পাদককে এজিএম করার ব্যাপারে বারবার অনুরোধ করলেও তিনি এজিএম করার কোনও আগ্রহ প্রকাশ না করে নির্বাচনের দিকেই যাচ্ছেন।’

এসভায় উপস্থিত ছিলেন তিন গ্র্যান্ডমাস্টার জিয়াউর রহমান, এনামুল হোসেন রাজীব ও আব্দুল্লাহ আল রাকিব। এরা কোনও পক্ষ বা প্যানেলে সমর্থন না জানিয়ে বলেন,‘কাঁদা ছোড়াছুড়ি না করে দাবার উন্নয়নের জন্য ভাবা উচিত। ’

এদিকে উপমহাদেশের প্রথম গ্র্যান্ডমাস্টার নিয়াজ মোর্শেদকে কাউন্সিলর দেখানো হয়েছে স্বাধীনতা পদকপ্রাপ্ত ক্রীড়াবিদ হিসেবে। নিয়াজ এখনও খেলছেন। নিয়াজের ভোটাধিকার নিয়েও প্রশ্ন রয়েছে!

দুবাই ওপেনে রাকিবের ড্র, রাজীবের হার

সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাইয়ে অনুষ্ঠানরত ১৮তম দুবাই ওপেন দাবা ২০১৬ এর অষ্টম রাউন্ডের খেলা শেষে বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব ও আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজ উদ্দিন ৮ খেলায় সাড়ে চার পয়েন্ট করে অর্জন করেছেন।
বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন রাজীব ৪ পয়েন্ট অর্জন করেছেন।
অষ্টম রাউন্ডের খেলায় রাকিব রাশিয়ার আন্তর্জাতিক মাস্টার কেন্টার এডুয়ার্ডের সাথে ড্র করেন। মিনহাজ ফিলিপাইনের তাবাদা জোবান্নির বিরুদ্ধে ওয়াক-ওভার পান এবং রাজীব ভারতের আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার প্রত্যুষা বোদ্ধার কাছে হেরে যান।
নবম বা শেষ রাউন্ডের খেলায় রাকিব জর্ডানের ফিদে মাস্টার সামহুরির সাথে, মিনহাজ ভারতের হার্ষা বারাথাকটির সাথে এবং রাজীব ভারতের হেমন্ত শর্মার সাথে খেলবেন।

দুবাইয়ে রাজীব-রাকিবের হার, মিনহাজের ড্র

দুবাই ওপেন দাবায় দুই গ্র্যান্ডমাস্টার আবদুল্লাহ আল রাকিব ও এনামুল হোসেন রাজীব সপ্তম রাউন্ডে হেরেছেন। ড্র করেছেন বাংলাদেশের অন্য দাবাড়ু আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজ উদ্দিন।
গত রোববার রাতে ভারতের আন্তর্জাতিক মাস্টার এস নিতিনের কাছে হারেন রাকিব। রাজীব হারেন ভারতের গ্র্যান্ডমাস্টার অরবিন্দ চিদাম্বরমের কাছে। সাত রাউন্ড শেষে রাজীব ও রাকিবের পয়েন্ট ৪ করে।
মিনহাজ সপ্তম রাউন্ডে ড্র করেছেন স্বাগতিক দেশের ফিদে মাস্টার সাইদ ইশাকের সঙ্গে। মিনহাজের পয়েন্ট সাড়ে তিন। ৩৭টি দেশের ৪৬ জন গ্র্যান্ডমাস্টার, ৮ জন মহিলা গ্র্যান্ডমাস্টার ৩৯ জন আন্তর্জাতিক মাস্টারসহ ১৯৫ জন খেলোয়াড় দুবাই ওপেনের এবারের আসরে অংশ নিচ্ছে।

এশিয়ান নেশনস কাপে চতুর্থ স্থানে বাংলাদেশ

সংযুক্ত আরব আমিরাতের আবুধাবীতে অনুষ্ঠানরত এশিয়ান নেশনস কাপের অষ্টম রাউন্ডের খেলায় বাংলাদেশ দাবা দল জর্ডানকে ৩.৫-০.৫ পয়েন্টে পরাজিত করেছে। ৮ খেলায় ১০ পয়েন্ট নিয়ে বাংলাদেশ দল পয়েন্ট তালিকায় চতুর্থ স্থানে রয়েছে।
অষ্টম রাউন্ডের খেলায় বাংলাদেশের পক্ষে আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজ উদ্দিন জর্ডানের আলাটার রাকানকে, গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব জর্ডানের আবো হাজেম মোহাম্মদকে এবং গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন রাজীব জর্ডানের আলাটার গায়েদাকে পরাজিত করেন।
এদিকে, গ্র্যান্ড মাস্টার নিয়াজ মোরশেদ জর্ডানের আবউদি মারওয়ানকে পরাজিত করেন। নবম বা শেষ রাউন্ডের খেলায় বাংলাদেশ প্রতিপক্ষ ইরান।

এশিয়ান নেশনস কাপে তৃতীয় স্থানে বাংলাদেশ

সংযুক্ত আরব আমিরাতের আবুধাবীতে অনুষ্ঠানরত এশিয়ান নেশনস কাপের চতুর্থ রাউন্ডের খেলা শেষে বাংলাদেশ দাবা দল ৬ পয়েন্ট নিয়ে ইরান, মঙ্গোলিয়া ও ইরাকের সাথে মিলিতভাবে পয়েন্ট তালিকায় তৃতীয় স্থানে রযেছে। ৮ পয়েন্ট নিয়ে চীন শীর্ষে এবং ৭ পয়েন্ট নিয়ে ভারত দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে।
চতুর্থ রাউন্ডের খেলায় বাংলাদেশ ৩.৫-০.৫ পয়েন্ট কিরগিজস্তানকে পরাজিত করে। বাংলাদেশের পক্ষে গ্র্যান্ড মাস্টার নিয়াজ মোরশেদ কিরগিজস্তানের আন্তর্জাতিক মাস্টার আবদিজাফর আসেলের সাথে ড্র করেন।
আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজ উদ্দিন আন্তর্জাতিক মাস্টার তোলোগোনটেজিন সিমিটিকে, গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব তালাইবেকভ তাগিরকে ও গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন কেনেনবায়েভ আইদারকে পরাজিত করেন।

দাবা প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় এবং শেখ রাসেল জাতীয় শিশু কিশোর পরিষদের উদ্যোগে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস উপলক্ষে স্কুল ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে অনুষ্ঠিত দাবা প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরনী অনুষ্ঠান বৃহস্পতিবার (২৪ মার্চ) সকালে বাংলাদেশ শিশু একাডেমির মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়।
বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের মাননীয় স্পিকার ডঃ শিরিন শারমীন চৌধুরী প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর অর্থ উপদেষ্টা ডঃ মশিউর রহমান ও শেখ রাসেল জাতীয় শিশু কিশোর পরিষদের মহাসচিব মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী এমপি। শেখ রাসেল জাতীয় শিশু কিশোর পরিষদের সভাপতি মোঃ রকিবুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন শেখ রাসেল জাতীয় শিশু কিশোর পরিষদের সাংগঠনিক সচিব কে এম শহিদউল্যা, সাংগঠনিক সচিব মুজাহিদুর রহমান হেলো, শেখ রাসেল জাতীয় শিশু কিশোর পরিষদের ঢাকা মহানগরীর সাধারণ সম্পাদক লায়ন মোঃ মজিবুর রহমান হাওলদার ও সাংগঠনিক সচিব মোঃ মনিরুজ্জামান পলাশ।
প্রতিযোগিতায় শতাধিক ছাত্র-ছাত্রী অংগ্রহণ করেন। বিভিন্ন গ্রুপে ২৭জন ছাত্র-ছাত্রী পুরস্কার লাভ করেন। ছাত্রদের মধ্যে বিভিন্ন গ্রুপে সরনোভা চৌধুরী, জুনায়েদ আল সামি, রাফায়েল কবীর নিলয়, প্রনব কুমার, ডানিয়েল মুরাদ, ছাত্রীদের মধ্যে মোসাম্মৎ ঝর্না বেগম, জান্নাতুল ফেরদৌস, খুশী আক্তার, ওয়ালিজা আহমেদ ও ইশরাত জাহান দিবা চ্যাম্পিয়ন হন।
দাবা প্রশিক্ষণ ও প্রসারে অবদানের জন্য বিডি চেস ইন স্কুলের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি এবং বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক গাজী সাইফুল তারেক, এলিগ্যান্ট ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের সিইও মাহমুদা হক চৌধুরী মলি, শেখ রাসেল চেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আলাউদ্দিন সাজু এবং নারায়ণগঞ্জের নাহার চেস একাডেমির প্রিন্সিপাল মোহাম্মদ নাজমুল হাসান রুমিকে সেরা সংগঠকের পুরস্কার দেয়া হয়।

শনিবার শুরু আন্তর্জাতিক রেটিং দাবা

আমিন মোহাম্মদ গ্রুপ, এএসটি বেভারেজ লিমিটেড ও বেঙ্গল গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় এবং শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের আয়োজনে, বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় আগামী ২৬ মার্চ হতে ৩ এপ্রিল ২০১৬ পর্যন্ত ‘আমিন মোহাম্মদ গ্রুপ, এএসটি বেভারেজ লিমিটেড ও বেঙ্গল গ্রুপ আন্তর্জাতিক ফিদে রেটিং দাবা’ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হবে।
৯ রাউন্ড সুইস লিগ পদ্ধতিতে বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে খেলাগুলো অনুষ্ঠিত হবে। এ আসরে বাংলাদেশ ও ভারতের খেলোয়াড়রা অংশ নিচ্ছেন। তবে নেপাল দাবা ফেডারেশনের নির্বাচনের কারণে দাবাড়ু পাঠাতে পারেনি। ব্যাংককে ৫ এপ্রিল ওপেন দাবা প্রতিযোগিতার জন্য থাইল্যান্ডও অংশগ্রহণ করতে পারছে না। ফিলিপাইনকেও আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল।
বৃহস্পতিবার (২৪ মার্চ) জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ টাওয়ারে এ প্রতিযোগিতা উপলক্ষে সাংবাদিক সম্মেলনে বিভিন্ন তথ্য তুলে ধরেন শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের সভাপতি লায়ন মো. মজিবুর রহমান হাওলাদার, পৃষ্ঠপোষক প্রতিষ্ঠান আমিন মোহাম্মদ গ্রুপের আইন উপদেষ্টা অ্যাডভোকেট জগলুল কবির, টুর্নামেন্ট কমিটির চেয়ারম্যান মো. মোকাদ্দেছ হোসাইন, টুর্নামেন্ট উদযাপন কমিটির চেয়ারম্যান এস এম মনিরুল ইসলাম মনি ও শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ক্যাপ্টেন সিফাত মো: রাফসান জানি। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন মিডিয়া কমিটির চেয়ারম্যান মোরসালিন আহমেদ।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের সহসভাপতি মো. জাহাঙ্গীর ইসলাম, যুন্ম সম্পাদক শামীম খান, কোষাধ্যক্ষ মো. শাহিন হোসেন, ক্রীড়া সম্পাদক মো. হারুন অর রশিদ, দফতর সম্পাদক এম এ সোবহানী, শিক্ষা ও পাঠগার সম্পাদক মো. মনিরুল ইসলাম আলমগীর প্রমুখ।
এ প্রতিযোগিতার মাধ্যমে রেটিংপ্রাপ্ত খেলোয়াড়দের রেটিং বৃদ্ধির পাশাপাশি নতুন খেলোয়াড়রাও আন্তর্জাতিক রেটিং অর্জনে সক্ষম হবেন।
আগামী শনিবার (২৬ মার্চ) এ প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করবেন বাংলাদেশ পুলিশের ইন্সপেক্টর জেনারেল এ কে এম শহীদুল হক বিপিএম পিপিএম। বিশেষ অতিথি থাকবেন আরটিভি ও বেঙ্গল গ্রুপের চেয়ারম্যান মোরশেদ আলম এমপি, শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের উপদেষ্টা ও গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের অতিরিক্ত সচিব মশিয়ার রহমান, আমিন মোহাম্মদ গ্রুপের ডিএমডি মো. রমজানুল হক নিহাদ, ভিএম ইন্টারন্যাশনাল লিমিটেড (মাই টিভি) এর চেয়ারম্যান নাসির উদ্দিন সাথী, গ্লোব ফার্মাসিউটিক্যালস্ গ্রুপ অব কোম্পানীজের মো. হারুনুর রশিদ, বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের দুই সহসভাপতি সৈয়দ শাহাবউদ্দিন শামীম ও কে এম শহিদউল্য।
সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, বিজয়ীদেরকে মোট এক লক্ষ পঁচাত্তর হাজার টাকার অর্থ পুরস্কার দেয়া হবে। প্রথম পুরস্কার থাকবে পঞ্চাশ হাজার টাকা। মহিলা, বালক বালিকা, প্রতিবন্ধী ও বয়স্ক কোটায় বিশেষ পুরস্কারের ব্যবস্থা থাকবে। এছাড়া ১ম, ২য় ও ৩য় স্থান অধিকারীদেরকে নগদ টাকার পাশাপাশি ট্রফিও দেওয়া হবে।

ওয়ালটনের সহায়তায় স্কুল দাবা প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত

ওয়ালটন গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় ও গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাব এর আয়োজনে এবং বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় অনুষ্ঠিত হয়েছে ‘ওয়ালটন স্কুল দাবা প্রতিযোগিতা-২০১৬’।
শনিবার দিনব্যাপী এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে রাজধানীর খান হাসান আদর্শ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রায় ২ শতাধিক ছাত্র-ছাত্রী। সকালে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন ওয়ালটন গ্রুপের স্পোর্টস এন্ড ওয়েলফেয়ার ডিপার্টমেন্টের প্রধান ও সিনিয়র অতিরিক্ত পরিচালক এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন)।
গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের সভাপতি আমির আলী রানার সভাপতিত্বে এ সময় উপস্থিত ছিলেন ক্লাবের উপদেষ্টা ও বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি মো. সারওয়ার, বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সহ-সভাপতি হাজী ছাত্তার খন্দকার এবং সাবেক কমিশনার হাজী নাজিম আলী দেওয়ান।

রেটিং দাবায় এককভাবে শীর্ষে রাকিব

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায়, লতিফ ট্রাভেলস্ প্রাইভেট লিমিটেডের পৃষ্ঠপোষকতায় এবং সিলেট জেলা ক্রীড়া সংস্থার আয়োজনে ‘লতিফ ট্রাভেলস্ আন্তর্জাতিক রেটিং দাবা প্রতিযোগিতা’র ষষ্ঠ রাউন্ডের খেলা শেষে সাড়ে পাঁচ পয়েন্ট নিয়ে বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার আব্দুল্লাহ আল রাকিব এককভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন।
পাঁচ পয়েন্ট করে নিয়ে ৫জন খেলোয়াড় দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন। তারা হলেন নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান, আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজ উদ্দিন ও ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ জাভেদ, শেখ রাসেল চেস ক্লাবের রবিউল ভূঁইয়া ও ভারতের নিখিল মাগিজনান।
সাড়ে চার পয়েন্ট করে নিয়ে ১৩জন খেলোয়াড় তৃতীয় স্থানে রয়েছেন। তারা হলেন শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের ফিদে মাস্টার মেহেদী হাসান পরাগ,ক্যান্ডিডেট মাস্টার সোহেল চৌধুরী ও ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান, নৌবাহিনীর ফিদে মাস্টার সেখ নাসির আহমেদ, ফিদে মাস্টার খন্দকার আমিনুল ইসলাম, ক্যান্ডিটেড মাস্টার ইকরামুল হক সিয়াম ও মোঃ শরীফ হোসেন, সোনালী ব্যাংক ক্রীড়া ও বিনোদন ক্লাবের মোঃ মতিউর রহমান মামুন, হাসান মেমোরিয়াল চেস ক্লাবের গোলাম মোস্তফা ভূঁইয়া, নেপালের ফিদে মাস্টার হামাল মানিস ও লামা হিমেল, সাইফ পাওয়ারটেক চেস ক্লাবের আনিচুজ্জামান জুয়েল ও ভারতের সক্ষম রাউতেলা।
বৃহস্পতিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) সকালে অনুষ্ঠিত ষষ্ঠ রাউন্ডের খেলায় রাকিব সিয়ামকে, জাভেদ সিরাজুল কবীরকে, রবিউল মাহতাবউদ্দিন আহমেদকে, ফাহাদ ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমানকে, সোহেল আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার রানী হামিদকে, শরীফ ফয়সাল হোসেনকে, মামুন আব্দুর রউফ আজিজকে, সক্ষম এস,এম, স্মরনকে, হিমাল রাজা মিয়াকে ও জুয়েল আলী আহমেদকে পরাজিত করেন।
জিয়া মিনহাজের সাথে, পরাগ নিখিলের সাথে,নাসির মানিসের সাথে ও আমিন মোস্তফার সাথে ড্র করেন।

ওয়ালটন স্কুল দাবা প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত

দেশের স্বনামধন্য ইলেকট্রিক্যাল, ইলেকট্রনিকস, অটোমোবাইলস, হোম অ্যাপ্লায়েন্স ও টেলিকমিউনিকেশন পণ্য প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান ওয়ালটনের পৃষ্ঠপোষকতায় ও গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের আয়োজনে এবং বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় অনুষ্ঠিত হয়েছে ‘ওয়ালটন স্কুল দাবা প্রতিযোগিতা-২০১৬’।
বৃহস্পতিবার দিনব্যাপী এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে মিরপুরের ড. মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ আদর্শ উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যাপীঠের ছাত্র-ছাত্রীরা। এই প্রতিযোগিতার জন্য শতাধিক ছাত্র-ছাত্রী নির্বাচন করা হয়। তাদের নিয়েই অনুষ্ঠিত হয় ওয়ালটন স্কুল দাবা প্রতিযোগিতা।
সকালে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন ওয়ালটন গ্রুপের স্পোর্টস এন্ড ওয়েলফেয়ার ডিপার্টমেন্টের প্রধান ও সিনিয়র অতিরিক্ত পরিচালক এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন)। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক গাজী সাইফুল তারেক, সহ-সভাপতি কে.এম. শহীদুল্লাহ, গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের সভাপতি আমির আলী রানা ও চেস প্লেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক এহতেশামুল আলম।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন ড. মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ আদর্শ উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যাপীঠের অধ্যক্ষ খালেকুজ্জামান জুয়েল। আর প্রতিযোগিতা সঞ্চালনা করেন ড. মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ আদর্শ উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যাপীঠের সহকারী প্রধান শিক্ষক মনিরা লাইজু।
এ সময় এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন) বলেন, ‘মূলত এটা ট্যালেন্ট হান্ট প্রোগ্রাম। এটার মাধ্যমে ছাত্র-ছাত্রীদের দাবার প্রতি আকৃষ্ট করার পাশাপাশি তাদের সৃজনশীলতা বৃদ্ধিতে সহায়তা করা হচ্ছে। কারণ, দাবা একটি সৃজনশীল খেলা। যা ছাত্র-ছাত্রীদের মেধাকে আরো শানিত করে। বৃদ্ধি করে তাদের সৃজনশীলতা। এ ধরনের ট্যালেন্ট হ্যান্ট প্রতিযোগিতায় ওয়ালটন গ্রুপ বরাবরের মতো পৃষ্ঠপোষকতা করে আসছে। আমার বিশ্বাস এটি মেধাবী খেলোয়াড়দের খুঁজে পেতে সাহায্য করবে।’ প্রতিযোগিতার চ্যাম্পিয়নকে ক্রেস্ট দেওয়া হয়। এ ছাড়া দ্বিতীয় থেকে দশম স্থানধারীদের মেডেল দেওয়া হয়।

ভারতে রানার-আপ বাংলাদেশের ফাহাদ

ভারতের মুম্বাই শহরে অনুষ্ঠিত ‘আইআইএফএল ওয়েলথ মুম্বাই জুনিয়র (অনুর্ধ্ব-১৩) দাবা চ্যাম্পিয়নশিপে’ শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান রানার-আপ হবার গৌরব অর্জন করেছেন। ফাহাদ এবং ভারতের দুই খেলোয়াড় সাধভানি রৌনক ও অদিত্য মিত্তাল ৯ খেলায় ৭.৫ পয়েন্ট করে নিয়ে চ্যাম্পিয়নশিপের জন্য টাই করেন। টাইব্রেকিং পদ্ধতিতে সাধভানি চ্যাম্পিয়ন, ফাহাদ রানার-আপ এবং অদিত্য তৃতীয় হন। টুর্নামেন্টের নবম বা শেষ রাউন্ডের খেলায় ফাহাদ ভারতের দানুস রাঘবকে পরাজিত করেন। ফাহাদ রানার-আপ হয়ে এক লাখ ভারতীয় রূপি অর্থ পুরস্কার লাভ করেন। ৬টি দেশের ১৭১জন অনূর্ধ্ব-১৩ বছর বয়সী দাবা খেলোয়াড় এ ইভেন্টে অংশগ্রহণ করেন।

মিলিতভাবে শীর্ষে বাংলাদেশের ফাহাদ

ভারতের মুম্বাই শহরে অনুষ্ঠানরত আইআইএফএল ওয়েলথ মুম্বাই জুনিয়র (অনুর্ধ্ব-১৩) দাবা চ্যাম্পিয়নশিপের খেলা শুরু হয়েছে। টুর্নামেন্টের সপ্তম রাউন্ডের খেলা শেষে শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান ৬ খেলায় ৬ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন।
তবে, এককভাবে শীর্ষে থাকতে পারেননি বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করা এই দাবাড়ু। চারজনের সাথে মিলিতভাবে শীর্ষে তিনি। সপ্তম রাউন্ডের খেলায় ফাহাদ ভারতের শেলকে শংকর সাহের সাথে ড্র করেন।

অনতা ও সরনোভার সঙ্গে শীর্ষে জান্নাতুল

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় ও শেখ রাসেল চেস ক্লাবের আয়োজনে ঢাকা শহরের স্কুল ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য শেখ রাসেল আন্তঃ স্কুল দাবা প্রতিযোগিতার খেলা শনিবার হতে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের ক্রীড়া কক্ষে শুরু হয়েছে।
৬০টি স্কুলের ৮৮জন ছাত্র এবং ১৮ জন ছাত্রী এ ইভেন্টে অংশগ্রহণ করেন। শনিবার ছাত্রদের গ্রুপের পঞ্চম রাউন্ডের খেলা শেষে পূর্ণ ৫ পয়েন্ট করে নিয়ে অনতা চৌধুরী ও সরনোভা চৌধুরী যুগ্মভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন এবং ছাত্রীদের গ্রুপের চতুর্থ রাউন্ডের খেলা শেষে পূর্ণ ৪ পয়েন্ট নিয়ে জান্নাতুল ফেরদৌস পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন।
জাতীয় সংসদের যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত স্থায়ী কমিটির চেয়ারম্যান জনাব মোঃ জাহিদ আহসান রাসেল, এমপি প্রধান অতিথি হিসেবে উপিস্থিত থেকে এ প্রতিযোগিতার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন।
শেখ রাসেল চেস ক্লাবের সভাপতি এবং বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ সভাপতি জনাব কে এম শহিদউল্যার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক জনাব গাজী সাইফুল তারেক। বক্তব্য রাখেন ওয়ালটন গ্রুপের প্রতিনিধি মেহরাব হোসেন আসিফ ও শেখ রাসেল চেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক জনাব আলাউদ্দিন সাজু।

মহিলা র‌্যাপিড দাবায় ইভা চ্যাম্পিয়ন

প্রথম শামসুন নাহার মহিলা র‌্যাপিড রেটিং দাবা প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশ নৌবাহিনীর মহিলা ফিদে মাস্টার নাজরানা খান ইভা অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন। ইভা ৭ খেলায় ৬.৫ পয়েন্ট পেয়ে শিরোপা জয় করেছেন। ৫ পয়েন্ট নিয়ে গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার রানী হামিদ রানার-আপ হয়েছেন।
এ ছাড়া সাড়ে ৪ পয়েন্ট নিয়ে সাবিকুন নাহার তনিমা তৃতীয়, ৪ পয়েন্ট করে নিয়ে জাহানার হক রুনু চতুর্থ, জান্নাতুল ফেরদৌস পঞ্চম এবং জোহরাতুল জান্নাত জিসা ষষ্ঠ হয়েছেন। ৩ পয়েন্ট করে নিয়ে হামিদা মাহমুদ সপ্তম এবং সুমাইয়া খন্দকার অষ্টম হয়েছেন। সেরা অনূর্ধ্ব-১২ বছর পুরস্কার পেয়েছেন নোশিন আঞ্জুম। আর সেরা আনরেটেড খেলোয়াড়ের পুরস্কার পেয়েছেন সামিহা চৌধুরী। খেলা শেষে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ-সভাপতি মো. মোকাদ্দেছ হোসাইন বিজয়ীদের পুরস্কৃত করেছেন। এ সময় বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের যুগ্ম সম্পাদক মোরসালিন আহমেদ উপস্থিত ছিলেন। বুধবার দাবা কক্ষে চতুর্থ হতে সপ্তম রাউন্ডের রাউন্ডের খেলায় ইভা সামিহাকে, রানী হামিদ জান্নাতকে, রুনু সুমাইয়াকে ও হামিদা নোশিনকে পরাজিত করেছেন। তনিমা জিসার সাথে ড্র করেছেন।

শীর্ষে ইভা, ভারতে জয়ের ধারায় ফাহাদ

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় ও বাংলাদেশ মহিলা দাবা সমিতির আয়োজনে এবং প্রবাসী দাবা খেলোয়াড় নেয়ামুল হক নিরুর আর্থিক পৃষ্ঠপোষকতায় প্রথম শামসুন নাহার মহিলা রেপিড রেটিং দাবা প্রতিযোগিতার খেলা মঙ্গলবার (১৯ জানুয়ারি) হতে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের ক্রীড়া কক্ষে শুরু হয়েছে। বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ-সভাপতি সৈয়দ শাহাব উদ্দিন শামীম দুই দিনব্যাপী এ প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন।
মহিলা দাবা সমিতির সভাপতি আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার রানী হামিদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ রেপিড দাবা প্রতিযোগিতার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন এসোসিয়েশন অব চেস প্লেয়ার্সের সভাপতি মোহাম্মদ এনায়েত হোসেন ও সদস্য মাহমুদা হক চৌধুরী মলি এবং মহিলা দাবা সমিতির সাধারণ সম্পাদক জাহানারা হক রুনু। এ সময় বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ সভাপতি কে এম শহিদউল্যা ও যুগ্ম-সম্পাদক শামীম খান, আন্তর্জাতিক দাবা বিচারক মোঃ হারুন অর রশিদ ও এসোসিয়েশন অব চেস প্লেয়ার্সের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ আমির আলী উপস্থিত ছিলেন।
৭ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠানরত এ ইভেন্টে ১২জন মহিলা ও বালিকা অংশ নিয়েছেন। তৃতীয় রাউন্ডের খেলা শেষে বাংলাদেশ নৌবাহিনীর মহিলা ফিদে মাস্টার নাজরানা খান ইভা পূর্ণ ৩ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট তালিকায় এককভাবে শীর্ষে পয়েছেন। আড়াই পয়েন্ট নিয়ে সাবিকুন নাহার তনিমা দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন।
এদিকে, ভারতের চেন্নাই শহরে অনুষ্ঠানরত অষ্টম ‘চেন্নাই ওপেন ইন্টারন্যাশনাল গ্র্যান্ডমাস্টারস দাবা প্রতিযোগিতার’ দ্বিতীয় রাউন্ডের খেলা শেষে শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান ২ খেলায় দেড় পয়েন্ট অর্জন করেছেন।
মঙ্গলবার সকালে অনুষ্ঠিত দ্বিতীয় রাউন্ডের খেলায় ফাহাদ ভারতের বালা কান্নামার সাথে ড্র করেন। এর আগে সোমবার প্রথম রাউন্ডে ফাহাদ ভারতের পিভিএস অরাবিন্দকে পরাজিত করেন।

দিল্লিতে শেষ রাউন্ডে জয় পেয়েছেন ফাহাদ

ভারতের দিল্লিতে অনুষ্ঠিত ‘১৪তম দিল্লি ওপেন ইন্টারন্যাশনাল গ্র্যান্ডমাস্টারস দাবা প্রতিযোগিতায়’ শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান ২০০ জনের মধ্যে ১২৮তম স্থান লাভ করেছেন। বাংলাদেশের সবচেয়ে কম বয়সী ফিদে মাস্টার ফাহাদ ১০ খেলায় ৪.৫ পয়েন্ট অর্জন করেন।
শনিবার (১৬ জানুয়ারি) অনুষ্ঠিত দশম বা শেষ রাউন্ডের খেলায় ফাহাদ শ্রীলঙ্কার কাবিন্দা আকিলাকে পরাজিত করেন। ৮ পয়েন্ট নিয়ে টাইব্রেকিংয়ে রাশিয়ার গ্র্যান্ড মাস্টার ইভান পপোভ এ প্রতিযোগিতায় চ্যাম্পিয়ন হন। একই পয়েন্ট নিয়ে হাঙ্গেরির গ্র্যান্ড মাস্টার চেবি এট্টিলা রানার-আপ এবং ইউক্রেনের গ্র্যান্ড মাস্টার নেভেরভ ভ্যালেরি তৃতীয় হন। ১৩টি দেশের ২১জন গ্র্যান্ড মাস্টার ও ২১জন আন্তর্জাতিক মাস্টারসহ ২০০জন খেলোয়াড় এ ইভেন্টে অংশগ্রহণ করেন।

১ম শামসুন নাহার মহিলা র‌্যাপিড রেটিং দাবা মঙ্গলবার শুরু

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের আয়োজনে এবং বাংলাদেশ মহিলা দাবা সমিতির আয়োজনে এবং প্রবাসী দাবা খেলোয়াড় নেয়ামুল হক নিরুর আর্থিক পৃষ্ঠপোষকতায় ১ম শামসুন নাহার মহিলা র‌্যাপিড রেটিং দাবা প্রতিযোগিতা আগামী ১৯ জানুয়ারী মঙ্গলবার বেলা ৩টা হতে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের ক্রীড়া কক্ষে শুরু হবে। দুই দিন ব্যাপী এ র‌্যাপিড দাবায় মহিলা ও বালিকা অংশগ্রহণ করতে পারবেন। অংশগ্রহণে আগ্রহী মহিলা ও বালিকাদের আগামী ১৮ জানুয়ারী সোমবারের মধ্যে নির্ধারিত এন্ট্রি ফিসহ বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনে নাম জমা দিতে বলা হয়েছে। প্রতিযোগিতার খেলা ৭ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হবে এবং বিজয়ীদের নগদ অর্থ পৃরস্কার দেয়া হবে।

আন্তর্জাতিক রেটিং দাবায় চ্যাম্পিয়ন জিয়াউর

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায়, প্রাইম ব্যাংক লিমিটেডের পৃষ্ঠপোষকতায় ও লিওনাইন চেস ক্লাবের আয়োজনে ‘প্রাইম ব্যাংক ১৮তম আন্তর্জাতিক রেটিং দাবা প্রতিযোগিতায়’ বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান চ্যাম্পিয়ন হবার গৌরব অর্জন করেছেন। জিয়া ৯ খেলায় পূর্ণ ৯ পয়েন্ট পেয়ে শিরোপা জয় করেন।
শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের ক্যান্ডিডেট মাস্টার সোহেল চৌধুরী ৭.৫ পয়েন্ট নিয়ে রানার-আপ হয়েছেন। সাত পয়েন্ট করে নিয়ে গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের আন্তর্জাতিক মাস্টার আবু সুফিয়ান শাকিল তৃতীয় ও শেখ রাসেল চেস ক্লাবের ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন চতুর্থ স্থান লাভ করেন।
সাড়ে ছয় পয়েন্ট করে নিয়ে পঞ্চম হতে দ্বাদশ স্থান লাভ করেন যথাক্রমে সোনালী ব্যাংক স্পোর্টস ও বিনোদন ক্লাবের মোঃ মতিউর রহমান মামুন, শেখ রাসেল চেস ক্লাবের শওকত হোসেন পল্লব, সাইফ পাওয়ারটেক চেস ক্লাবের মোহাম্মদ সিরাজুল কবীর, হাসান মেমোরিয়াল চেস ক্লাবের মোহাম্মদ এনায়েত হোসেন, শওকত বিন ওসমান শাওন, হাসান মেমোরিয়ালের গোলাম মোস্তফা ভূঁইয়া, নেবুলা চেস ক্লাবের ফয়সাল হোসেন ও সাইফ পাওয়ারটেকের আনিছুজ্জামান জুয়েল।
ছয় পয়েন্ট করে নিয়ে ত্রয়োদশ হতে একবিংশ হন যথাক্রমে উতেন, ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান, মোঃ মাসুম হোসেন, মোঃ মুজিবুর রহমান, কাজী মোঃ মাহবুব আফজাল, ভারতের সক্ষম রাউটেলা, শামসুল কবীর চৌধুরী, মোঃ আব্দুর রউফ ও মোঃ শরীয়তউল্লাহ।
বৃহস্পতিবার দাবা কক্ষে খেলা শেষে পুরস্কার বিতরনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। সাবেক রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ জমির প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করেন। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রাইম ব্যাংক লিমিটেডের ডেপুটি ম্যানেজিং ডিরেক্টর হাবিবুর রহমান, বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ সভাপতি কে এম শহিদউল্যা ও সাধারণ সম্পাদক গাজী সাইফুল তারেক। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন লিওনাইন চেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মঞ্জুর হোসেন জিম্মু এবং আরোও বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের যুগ্ম সম্পাদক শামীম খান।
বৃহস্পতিবার নবম বা শেষ রাউন্ডের খেলা অনুষ্ঠিত হয়। শেষ রাউন্ডে জিয়া ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমানকে, ইমন মাসুমকে, শাওন উতেনকে, এনায়েত আবজিদকে, মোস্তফা জাকারিয়াকে, ফয়সাল হানিফকে, জুয়েল নজরে মাওলাকে এবং সিরাজ সোহানকে পরাজিত করেন। সোহেল শাকিলের সাথে ও মামুন পল্লবের সাথে ড্র করেন। একজন গ্র্যান্ড মাস্টার, একজন আন্তর্জাতিক মাস্টার, তিনজন ফিদে মাস্টার এবং একজন ভারতীয় রেটিংপ্রাপ্ত খেলোয়াড়সহ ১১২জন খেলোয়াড় এ ইভেন্টে অংশগ্রহণ করেন। প্রতিযোগিতার খেলা ৯ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হয় এবং বিজয়ীদের নগদ এক লক্ষ টাকার অর্থ পুরস্কার দেয়া হয়।

আন্তর্জাতিক রেটিং দাবায় শীর্ষে ১২ জন

দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় ও লিওনাইন চেস ক্লাবের আয়োজনে এবং প্রাইম ব্যাংক লিমিটেডের পৃষ্ঠপোষকতায় ‘প্রাইম ব্যাংক ১৮তম আন্তর্জাতিক রেটিং দাবা প্রতিযোগিতার’ তৃতীয় রাউন্ডের খেলা শেষে ১২জন খেলোয়াড় পূর্ণ ৩ পয়েন্ট করে নিয়ে মিলিতভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন।
শীর্ষে রয়েছেন বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান ও মহিলা ফিদে মাস্টার শারমীন সুলতানা শিরিন, শেখ রাসেল চেস ক্লাবের ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন ও শওকত হোসেন পল্লব, শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের সোহেল চৌধুরী, উতেন, হাসান মেমোরিয়ালের মোহাম্মদ এনায়েত হোসেন, মোঃ আলীমুল হক কাজল, ফায়ার সার্ভিসের মোঃ মাসুম হোসেন, সোনালী ব্যাংক ক্রীড়ার মতিউর রহমান মামুন, সাইফ পাওয়ারটেকের মোহাম্মদ সিরাজুল কবীর ও যশোরের গৌর সুন্দর বিশ্বাস।
গোল্ডেন স্পোর্টিংয়ের আন্তর্জাতিক মাস্টার আবু সুফিয়ান শাকিল আড়াই পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন। শনিবার (০২ জানুয়ারি) তৃতীয় ও চতুর্থ রাউন্ডের খেলা অনুষ্ঠিত হয়।
এদিকে, দুরারোগ্য ব্যাধিতে আক্রান্ত আন্তর্জাতিক রেটিংপ্রাপ্ত দাবা খেলোয়াড় এফ,এম, ওবায়দা নিপুনের চিকিৎসার সাহাযার্থে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় এসোসিয়েশন অব চেস প্লেয়ার্স, বাংলাদেশ এর আয়োজনে দিনব্যাপী এসিপি’বি ফিদে র‌্যাপিড রেটিং দাবা প্রতিযোগিতায় সোনালী ব্যাংক ক্রীড়া ও বিনোদন ক্লাবের মোঃ আবু হানিফ অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হবার গৌরব অর্জন করেন।
হানিফ ৯ খেলায় ৮ পয়েন্ট পেয়ে শিরোপা জয় করেন। বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের দাবা কক্ষে দিনব্যাপী এ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। সাড়ে সাত পয়েন্ট করে নিয়ে শেখ রাসেল চেস ক্লাবের ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন রানার-আপ, মোঃ আলীমুল হক কাজল তৃতীয় ও মোঃ মনির হোসেন চতুর্থ স্থান লাভ করেন। সাত পয়েন্ট করে নিয়ে সোনারগাঁও চেস ক্লাবের শরীয়তউল্লাহ পঞ্চম ও সুলতানা কামাল স্মৃতি পাঠাগারের কাজী মোঃ মাহবুব আফজাল ষষ্ঠ স্থান লাভ করেন। প্রতিযোগিতার খেলা ৯ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হয়। এ প্রতিযোগিতায় ১০৬জন খেলোয়াড় অংশ নেন এবং বিজয়ীদের পুরস্কার দেয়া হয়।

রেটিং দাবায় হাসান-রিয়াদ যুগ্মভাবে শীর্ষে

দুরারোগ্য ব্যাধিতে আক্রান্ত আন্তর্জাতিক রেটিংপ্রাপ্ত দাবা খেলোয়াড় এফ,এম, ওবায়দা নিপুনের চিকিৎসার সাহাযার্থে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় এসোসিয়েশন অব চেস প্লেয়ার্স, বাংলাদেশ এর আয়োজনে দিনব্যাপী এসিপি’বি ফিদে র‌্যাপিড রেটিং দাবা প্রতিযোগিতা শুক্রবার (০১ জানুয়ারি) অনুষ্ঠিত হয়।
১০৬জন খেলোয়াড় এ ইভেন্টে অংশগ্রহণ করেন। পঞ্চম রাউন্ডের খেলা শেষে পূর্ণ পাঁচ পয়েন্ট করে নিয়ে শেখ রাসেল চেস ক্লাবের মোঃ হাসান ইমাম ও সুলতানা কামাল স্মৃতি পাঠাগারের দেওয়ান মোহাম্মদ রিয়াদ যুগ্মভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে থাকেন।
সাড়ে চার পয়েন্ট করে নিয়ে শেখ রাসেল চেস ক্লাবের ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন ও সোনালী ব্যাংক ক্রীড়া ও বিনোদন ক্লাবের মোঃ আবু হানিফ দ্বিতীয় স্থান অধিকার করেন। প্রতিযোগিতার খেলা ৯ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হয় এবং বিজয়ীদের নগদ অর্থ পুরস্কার দেয়া হয়।
বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের দাবা কক্ষে গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের উপদেষ্টা ও ডাঃ শাহরিয়ার স্মৃতি সংসদের সভাপতি মোঃ সারোয়ার প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এ প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন।

আরব আমিরাতে রাকিব ৪৮তম

সংযুক্ত আরব আমিরাতের আল আইন শহরে অনুষ্ঠিত ‘আল আইন ক্লাসিক গ্র্যান্ড মাস্টারস দাবা প্রতিযোগিতায়’ নবম বা শেষ রাউন্ডের খেলা শেষে বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব ৯ খেলায় ৫ পয়েন্ট নিয়ে ৪৮তম হয়েছেন।
এছাড়া বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসন রাজীব ৯ খেলায় সাড়ে চার পয়েন্ট নিয়ে ৬৪তম এবং সাইফ পাওয়ারটেক চেস ক্লাবের মোঃ আনিছুজ্জামান জুয়েল দুই পয়েন্ট নিয়ে ১২০তম স্থান লাভ করেন।
শেষ রাউন্ডের খেলায় রাকিব আজারবাইজানের ফিদে মাস্টার বাসিরলি নেইলকে পরাজিত করেন। রাজীব জর্জিয়ার মরচিয়াসভিলি বাচানার সাথে ড্র করেন। জুয়েল শ্রীলঙ্কার ভিট্টাসিনহা বসন্তর কাছে হেরে যান। চিনের গ্র্যান্ড মাস্টার ওয়াং হাও ৯ খেলায় ৮ পয়েন্ট পেয়ে এ ইভেন্টে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হন।
৩১টি দেশের ৫২জন গ্র্যান্ড মাস্টার ৬জন মহিলা গ্র্যান্ড মাস্টার ও ১৭জন আন্তর্জাতিক মাস্টারসহ ১২৭জন খেলোয়াড় এ ইভেন্টে অংশগ্রহণ করেন।
এদিকে, প্রাইম ব্যাংক লিমিটেডের পৃষ্ঠপোষকতায়, বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় এবং লিওনাইন চেস ক্লাবের আয়োজনে ‘প্রাইম ব্যাংক ১৮তম আন্তর্জাতিক রেটিং দাবা প্রতিযোগিতার’ দ্বিতীয় রাউন্ডের খেলা ২৫জন খেলোয়াড় পূর্ণ দুই পয়েন্ট করে নিয়ে মিলিতভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন।
এছাড়া, দুরারোগ্য ব্যাধিতে আক্রান্ত আন্তর্জাতিক রেটিংপ্রাপ্ত দাবা খেলোয়াড় এফ এম ওবায়দা নিপুনের চিকিৎসার সাহাযার্থে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় এসোসিয়েশন অব চেস প্লেয়ার্স, বাংলাদেশ এর আয়োজনে দিনব্যাপী এসিপি’বি ফিদে ৠাপিড রেটিং দাবা প্রতিযোগিতার খেলা শুক্রবার (০১ জানুয়ারী ২০১৬) সকাল ১০ টা হতে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের দাবা কক্ষে শুরু হবে। সকলের জন্য এ দাবা ইভেন্টে অংশগ্রহণে উন্মুক্ত। প্রতিযোগিতার খেলা সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হবে এবং বিজয়ীদের পুরস্কার দেয়া হবে।

আল আইন কাসিক গ্র্যান্ড মাস্টারস দাবা

সংযুক্ত আরব আমিরাতের আল আইন শহরে অনুষ্ঠানরত আল আইন কাসিক গ্র্যান্ড মাস্টারস দাবা প্রতিযোগিতার চতুর্থ রাউন্ডের খেলা শেষে বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসন রাজীব ৪ খেলায় আড়াই পয়েন্ট, বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব দুই পয়েন্ট এবং সাইফ পাওয়ারটেক চেস কাবের মোঃ আনিচুজ্জামান জুয়েল দেড় পয়েন্ট অর্জন করেছেন। শনিবার চতুর্থ ও পঞ্চম রাউন্ডের খেলা অনুষ্ঠিত হয়। চতুর্থ রাউন্ডের খেলায় রাজীব আজেরবাইজানের পারবানিয়ান আসুতকে পরাজিত করেন। রাকিব ইউক্রেনের ২৬৭৭ রেটিংপ্রাপ্ত গ্র্যান্ড মাস্টার আরেসচিনকো আলেকজান্ডারের কাছে ও জুয়েল সংযুক্ত আরব আমিরাতের আন্তর্জাতিক মাস্টার ওমর নোয়ামানের কাছে হেরে যান।
বিজয় দিবস স্কুল দাবা প্রতিযোগিতা
শেখ রাসেল জাতীয় শিশু কিশোর পরিষদের আয়োজনে এবং বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় বিজয় দিবস উপলক্ষ্যে স্কুলের ছাত্রীদের দাবা প্রতিযোগিতা শনিবার দাবা কক্ষে অনুষ্ঠিত হয়। সকালে জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের পুরাতন ভবনের সভাকক্ষে প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা ডঃ আব্দুস সোবহান গোলাপ প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত এ প্রতিযোগিতার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক গাজী সাইফুল তারেক। অনুষ্ঠানের সভাপত্বি করেন জনাব কে এম শহিদউল্যা, অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন জনাব মোজাহিদুর রহমান হেলো, লায়ন মোঃ মজিবুর রহমান হাওলাদার ও মনিরুজ্জামান পলাশ। ছাত্রীদের ষষ্ঠ হতে দশম শ্রেনী গ্রুপে ৫ খেলায় পূর্ণ ৫ পয়েন্ট পেয়ে মোসাম্মৎ ঝর্না বেগম অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হন। ৪ পয়েন্ট নিয়ে খুশী আক্তার রানার-আপ হন। তিন পয়েন্ট করে নিয়ে মেহেরুন নেসা শান্তা তৃতীয় ও নাফিসা আঞ্জুম হিলালী চতুর্থ স্থান লাভ করেন। কেজি হতে পঞ্চম শ্রেনী গ্রুপে ফারদিনা হোসেন এরিনা সাড়ে চার পয়েন্ট নিয়ে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হন। ৪ পয়েন্ট পেয়ে নোশিন আঞ্জুম রানার-আপ এবং সাড়ে তিন পয়েন্ট নিয়ে ইশরাত জাহান দিবা তৃতীয় হয়। দুটি গ্রুপে ২০জন ছাত্রী এ ইভেন্টে অংশগ্রহণ করেন।
বিজয় দিবস র‌্যাপিড দাবা প্রতিযোগিতা
মহান বিজয় দিবস উপলক্ষ্যে মোহাম্মদপুর চেস কাবের আয়োজনে বিজয় দিবস র‌্যাপিড দাবা প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হবার গৌরব অর্জন করেন। শুক্রবার বাদশাহ ফয়সাল ইন্সস্টিউটে অনুষ্ঠিত এ প্রতিযোগিতায় জিয়া ৭ খেলায় ৬.৫ পয়েন্ট পেয়ে শিরোপা জয় করেন। ছয় পয়েন্ট করে নিয়ে টাই-ব্রেকিং পদ্ধতিতে শেখ রাসেল চেস কাবের ফিদে মাস্টার সৈয়দ মাহফুজুর রহমান ইমন রানার-আপ এবং সোনালী ব্যাংক ক্রীড়া ও বিনোদন কাবের আবজিদ রহমান তৃতীয় স্থান লাভ করেছেন। সাড়ে পাঁচ পয়েন্ট করে নিয়ে চতুর্থ হতে অষ্টম স্থান লাভ করেন যথাক্রমে ফিদে মাস্টার খন্দকার আমিনুল ইসলাম, গোলাম মোস্তফা ভূঁইয়া, শেখ মোঃ খায়রুল ইসলাম, ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ জাভেদ ও খন্দকার কায়েস হাসান। প্রতিযোগিতার খেলা ৭ রাউন্ডের সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হয় এবং এ প্রতিযোগিতায় ৯৫জন খেলোয়াড় অংশগ্রহণ করেন। বিজয়ীদের নগদ অর্থ পুরস্কার এবং সকল খেলোয়াড়কে শুভেচ্ছা পুরস্কার দেয়া হয়। ঢাকা সিটি কর্পোরেশন উত্তরের ৩২ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ মিজানুর রহমান প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করেন।
লিওনাইন আন্তর্জাতিক দাবা প্রতিযোগিতা
বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় এবং লিওনাইন চেস কাবের আয়োজনে আন্তর্জাতিক রেটিং দাবা প্রতিযোগিতার খেলা আগামী ৩০ ডিসেম্বর ২০১৫ বুধবার বেলা ৩-০০ (তিন) টা হতে দাবা কক্ষে শুরু হবে। সকলের জন্য এ প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ উন্মুক্ত। অংশগ্রহণে আগ্রহী দাবা খেলোয়াড়দের নির্ধারিত এন্ট্রি ফিসহ আগামী ২৯ ডিসেম্বর মঙ্গলবারের মধ্যে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশন অফিসে নাম জমা দিতে বলা হচ্ছে। প্রতিযোগিতার খেলা ৯ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হবে এবং বিজয়ীদের এক লক্ষ টাকার অর্থ পুরস্কার দেয়া হবে।

মহিলা রেটিং দাবায় রানী হামিদ চ্যাম্পিয়ন

রথম শমসের আলী মেমোরিয়াল মহিলা রেটিং দাবা প্রতিযোগিতায় গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার রানী হামিদ অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন। সাড়ে ৬ পয়েন্ট পেয়ে তিনি শিরোপা জয় করেছেন। গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের পৃষ্ঠপোষকতায় বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় এবং বাংলাদেশ মহিলা দাবা সমিতির আয়োজনে এ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
আসরে সাড়ে ৫ পয়েন্ট নিয়ে টাইব্রেকিং পদ্ধতিতে বাংলাদেশ নৌবাহিনীর মহিলা ফিদে মাস্টার শারমীন সুলতানা শিরিন রানার-আপ এবং অগ্রণী ব্যাংক লিমিটেড দাবা দলের মহিলা ফিদে মাস্টার জাকিয়া সুলতানা তৃতীয় হয়েছেন। ৫ পয়েন্ট করে নিয়ে চতুর্থ হতে সপ্তম স্থান লাভ করেন যথাক্রমে বাংলাদেশ নৌবাহিনীর মহিলা ফিদে মাস্টার নাজরানা খান ইভা, মহিলা দাবা সমিতির জাহানার হক রুনু ও হামিদা মাহমুদ এবং বাংলাদেশ নৌবাহিনীর প্রতিভা তালুকদার।
সাড়ে ৪ পয়েন্ট করে অষ্টম হতে একাদশ হন যথাক্রমে ফারজানা হোসেন এ্যানি, বরিশালের আফরিন জাহান মুনিয়া, নারায়ণগঞ্জের ফাতেমা তুজ জোহরা শ্রাবণী ও জান্নাতুল ফেরদৌস। আনরেটেড হিসেবে ফারদিনা হোসেন এরিনা, অনুর্ধ্ব-১৮ এ শ্রাবণী ও অনুর্ধ্ব-১২ এ জান্নাত বিশেষ পুরস্কার পেয়েছেন।
বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত সপ্তম রাউন্ডের খেলায় রানী হামিদ শিরিনের সাথে ড্র করেছেন। জাকিয়া রুনুকে, হামিদা এ্যানিকে, প্রতিভা কিশোয়ারা সাজরীন ইভানে, মুনিয়া নোশিন আঞ্জুমকে ও জান্নাত আমেনাকে হারিয়েছেন।
খেলা শেষে জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের সচিব অশোক কুমার বিশ্বাস বিজয়ীদের পুরস্কৃত করেছেন। অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন মহিলা দাবা সমিতির সভানেত্রী রানী হামিদ, দাবা ফেডারেশনের সহ-সভাপতি কে এম শহিদউল্যা ও গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের সভাপতি মোহাম্মদ আমির আলী রানা, স্কোয়াস ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক সোহেল হামিদ প্রমুখ। ৭ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতির এ প্রতিযোগিতায় ৪২জন খেলোয়াড় অংশগ্রহণ করেছেন।

আমিরাতে গেলেন দেশসেরা তিন দাবাড়ু

সংযুক্ত আরব আমিরাতের আল আইন শহরে ‘আল আইন ক্লাসিক গ্র্যান্ড মাস্টারস দাবা প্রতিযোগিতায়’ বাংলাদেশ নৌবাহিনীর দুই গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব ও এনামুল হোসেন রাজীব এবং সাইফ পাওয়ারটেক চেস ক্লাবের মোঃ আনিছুজ্জামান জুয়েল অংশগ্রহণ করবেন।
বুধবার হতে এ প্রতিযোগিতার খেলা শুরু হচ্ছে। বিভিন্ন দেশের ৬০ এর অধিক গ্র্যান্ড মাস্টার এ ইভেন্টে অংশ নেবেন। বাংলাদেশের তিন খেলোয়াড় মঙ্গলবার সকালে আল আইনের উদ্দেশ্যে ঢাকা ত্যাগ করেছেন।
এদিকে, গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের পৃষ্ঠপোষকতায়, বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় এবং বাংলাদেশ মহিলা দাবা সমিতির আয়োজনে প্রথম ‘শমসের আলী মেমোরিয়াল মহিলা রেটিং দাবা প্রতিযোগিতা-২০১৫’র পঞ্চম রাউন্ডের খেলা শেষে গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার রানী হামিদ পূর্ণ ৫ পয়েন্ট নিয়ে এককভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন।
চার পয়েন্ট করে নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন বাংলাদেশ নৌবাহিনীর মহিলা ফিদে মাস্টার ফিদে মাস্টার শারমীন সুলতানা শিরিন ও মহিলা ফিদে মাস্টার নাজরানা খান ইভা, মহিলা দাবা সমিতির জাহানার হক রুনু ও হামিদা মাহমুদ এবং একসেস চেস ক্লাবের কিশোয়ারা সাজরীন ইভা। মহিলা ফিদে মাস্টার জাকিয়া সুলতানা ও ফারজানা হোসেন এ্যানি সাড়ে তিন পয়েন্ট করে নিয়ে তৃতীয় স্থানে রয়েছেন।
মঙ্গলবার দাবা কক্ষে অনুষ্ঠিত পঞ্চম রাউন্ডের খেলায় রানী হামিদ রুনুকে, শিরিন এ্যানিকে, ইভা সুমাইয়া খন্দকারকে, হামিদা সাবেকুন নাহার তনিমাকে, ইভানা জোহরাতুল জান্নাত জিসাকে ও জাকিয়া জান্নাতুল ফেরদৌসকে পরাজিত করেন।

তৃতীয় রাউন্ড শেষে শীর্ষে রানী হামিদ

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায়, বাংলাদেশ মহিলা দাবা সমিতির আয়োজনে এবং গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের পৃষ্ঠপোষকতায় ‘প্রথম শমসের আলী মেমোরিয়াল মহিলা রেটিং দাবা প্রতিযোগিতা-২০১৫’র তৃতীয় রাউন্ডের খেলা শেষে ৪জন খেলোয়াড় পূর্ণ তিন পয়েন্ট করে অর্জন করে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন।
শীর্ষে রয়েছেন বাংলাদেশ নৌবাহিনীর মহিলা ফিদে মাস্টার শারমীন সুলতানা শিরিন, গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার রানী হামিদ, বাংলাদেশ নৌবাহিনীর মহিলা ফিদে মাস্টার নাজরানা খান ইভা ও মহিলা দাবা সমিতির জাহানার হক রুনু।
আড়াই পয়েন্ট করে নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন অগ্রণী ব্যাংক দাবা দলের মহিলা ফিদে মাস্টার জাকিয়া সুলতানা ও তিতাস ক্লাবের ফারজানা হোসেন এ্যানি।
রোববার দাবা কক্ষে অনুষ্ঠিত তৃতীয় রাউন্ডের খেলায় শিরিন ফাতেমা তুজ জোহরা শ্রাবনীকে, নারী হামিদ সাবেকুন নাহার তনিমাকে, ইভা প্রতিভা তালুকদারকে ও জাহানারা হক রুনু তাসমিন সুলতানাকে পরাজিত করেন। জাকিয়া এ্যানির সাথে ও আফরিন জাহান মুনিয়া কিশোয়ারা সাজরীন ইভানার সাথে ড্র করেন।

মহিলা রেটিং দাবা প্রতিযোগিতা

প্রথম শমসের আলী মেমোরিয়াল মহিলা রেটিং দাবা প্রতিযোগিতার দ্বিতীয় রাউন্ডের খেলা শেষে ৯জন খেলোয়াড় স্ব-স্ব খেলায় জয়ী হয়ে পূর্ণ ২ পয়েন্ট করে অর্জন করেছেন। এরা হলেন- মহিলা ফিদে মাস্টার শারমীন সুলতানা শিরিন, আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার রানী হামিদ, মহিলা ফিদে মাস্টার নাজরানা খান ইভা, মহিলা ফিদে মাস্টার জাকিয়া সুলতানা, সাবেকুন নাহার তনিমা, ফাতেমা তুজ জোহরা শ্রাবণী, প্রতিভা তালুকদার, ফারজানা হোসেন এ্যানি ও জাহানারা হক রুনু।
শনিবার দাবা কক্ষে অনুষ্ঠিত দ্বিতীয় রাউন্ডের খেলায় শিরিন সুমাইয়া খন্দকারকে, রানী হামিদ আফরিন জাহান মুনিয়াকে, ইভা জোহরাতুল জান্নাত জিশাকে, জাকিয়া হামিদা মাহমুদকে, তনিমা আমেনা খাতুনকে, শ্রাবণী সৈয়দা ফাহমিদা মালেককে, এ্যানি নোশিন আঞ্জমকে ও রুনু সামিহা আক্তারকে হারিয়েছেন। তাসমিন সুলতানা কিশোয়ারা সাজরীন ইভানার সাথে ড্র করেছেন। আর প্রতিভা কুমুদি নার্গিসের বিপক্ষে ওয়াক-ওভার পেয়েছেন। গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের পৃষ্ঠপোষকতায় বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায় এবং বাংলাদেশ মহিলা দাবা সমিতির আয়োজনে এই আসর অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

৪২ খেলোয়াড়কে নিয়ে শুরু মহিলা রেটিং দাবা

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহযোগিতায়, বাংলাদেশ মহিলা দাবা সমিতির আয়োজনে ও গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের পৃষ্ঠপোষকতায় প্রথম শমসের আলী মেমোরিয়াল মহিলা রেটিং দাবা প্রতিযোগিতা-২০১৫ এর খেলা শুক্রবার হতে দাবা কক্ষে শুরু হয়েছে।
শুক্রবার সকালে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এ প্রতিযোগিতার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন। বাংলাদেশ মহিলা দাবা সমিতির সভানেত্রী আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার রানী হামিদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ সভাপতি মোঃ মোকাদ্দেছ হোসাইন, যুগ্ম সম্পাদক শামীম খান, আন্তর্জাতিক দাবা বিচারক মো: হারুন অর রশিদ, এসোসিয়েশন অব চেস প্লেয়ার্স বাংলাদেশ এর সভাপতি মোহাম্মদ এনায়েত হোসেন, সাধারণ সম্পাদক আন্তর্জাতিক মাস্টার আবু সুফিয়ান শাকিল, মরহুম শমশের আলীর পুত্রদ্বয় গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাবের সভাপতি মোহাম্মদ আমির আলী ও শওকত আলী বক্তব্য রাখেন।
৪২ জন খেলোয়াড় এ ইভেন্টে অংশগ্রহণ করছে। প্রথম রাউন্ডের খেলা শেষে ২০জন খেলোয়াড় স্ব-স্ব খেলায় জয়ী হয়ে পূর্ণ পয়েন্ট পেয়েছেন।
জয়ীরা হলেন: শারমীন সুলতানা শিরিন, আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার রানী হামিদ, নাজরানা খান ইভা, জাকিয়া সুলতানা, সাবেকুন নাহার তনিমা, ফাতেমা তুজ জোহরা, প্রতিভা তালুকদার, কিশোয়ারা সাজরীন ইভানা, ফারজানা হোসেন এ্যানি, জাহানারা হক রুনু, আফরিন জাহান মুনিয়া, সুমাইয়া খন্দকার, হামিদা মাহমুদ, জোহরাতুল জান্নাত জিশা, সামিহা আক্তার, আমেনা খাতুন, সৈয়দা ফাহমিদা মালেক, কুমুদি নার্গিস, নোসিন আঞ্জুম ও তাসমিন সুলতানা। প্রতিযোগিতার খেলা ৭ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন শেখ রাসেল মেমোরিয়াল

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের আয়োজনে ও ওয়ালটন গ্রুপের পৃষ্ঠাপোষকতায় আয়োজিত ‘ওয়ালটন প্রিমিয়ার ডিভিশন দাবা লিগ-২০১৫’ তে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হবার গৌরব অর্জন করেছে শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাব।
শেখ রাসেল মেমোরিয়াল ক্লাব ৮ খেলায় ১৫ পয়েন্ট পেয়ে শিরোপা জয় করে। শেখ রাসেল ৭টি খেলায় জয়ী হয় এবং ১টি খেলায় ড্র করে। এবারই প্রথমবারের মতো প্রিমিয়ার ডিভিশন দাবা লিগে অংশ নিয়ে শিরোপা জয়ের কৃতিত্ব দেখায় দলটি।
এদিকে, গতবারের চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ নৌবাহিনী দাবা দল রানার্স-আপ হয়েছে। নৌবাহিনী দাবা দলও ৮ খেলার মধ্যে ৭টিতে জয়ী হয় এবং ১টিতে ড্র করে। শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাব ও বাংলাদেশ নৌবাহিনী দাবা দলের পয়েন্ট সমান হওয়ায় গেম পয়েন্টের মাধ্যমে স্থান নির্ধারণ করা হয়।
শেখ রাসেলে মেমোরিয়াল ২৭ গেম পয়েন্ট পেয়ে শিরোপা জয় করে এবং নৌবাহিনী ২৬ গেম পয়েন্ট নিয়ে রানার্স-আপ হয়। শেখ রাসেল মেমোরিয়ালের পক্ষে খেলোয়াড় ছিলেন ভারতের গ্র্যান্ড মাস্টার দিব্যেন্দু বড়ুয়া, ভারতীয় আন্তর্জাতিক মাস্টার দীপ্তায়ন ঘোষ, দেশের ফিদে মাস্টার মেহেদী হাসান পরাগ, গ্র্যান্ড মাস্টার নিয়াজ মোরশেদ, ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ ফাহাদ রহমান ও ক্যান্ডিডেট মাস্টার সোহেল চৌধুরী এবং অধিনায়ক কাম কর্মকর্তা মোঃ মোকাদ্দেছ হোসাইন। রানার্স-আপ বাংলাদেশ নৌবাহিনী দাবা দলের পক্ষে অংশগ্রহণ করেন ফিদে মাস্টার মোঃ তৈয়বুর রহমান, গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ রাকিব, আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনাহজ উদ্দিন, গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন রাজীব, গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান ও ফিদে মাস্টার সেখ নাসির আহমেদ এবং কর্মকর্তা ছিলেন কমান্ডার এম,এস, হাসান।
গতবারের প্রথম বিভাগ দাবা লিগ হতে উন্নীত গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাব তৃতীয় স্থান লাভ করেছে। গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাব ৮ খেলায় ১০ পয়েন্ট পেয়ে তৃতীয় হয়। গোল্ডেন স্পোর্টিংয়ের পক্ষে অংশ নেন আন্তর্জাতিক মাস্টার আবু সুফিয়ান শাকিল, ভারতীয় প্রান্তিক রায়, ফিদে মাস্টার দেবরাজ চ্যাটার্জী, ভারতীয় শ্রিজিৎ পল, আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার রানী হামিদ ও মোঃ মাসুম রাহী।
অন্যান্য স্থানগুলো হচ্ছেঃ
চতুর্থ-বাংলাদেশ নৌবাহিনী জুনিয়র দাবা দল পয়েন্ট-৯
পঞ্চম-তিতাস ক্লাব দাবা দল পয়েন্ট-৭
ষষ্ঠ-সোনালী ব্যাংক ক্রীড়া ও বিনোদন ক্লাব পয়েন্ট-৫, সপ্তম-প্রিতম-প্রিজম চেস ক্লাব, নারায়ণগঞ্জ পয়েন্ট-৪, গেম পয়েন্ট-১০.৫
অষ্টম-সুলতানা কামাল স্মৃতি পাঠাগার পয়েন্ট-৪ এবং গেম পয়েন্ট-৮.৫ এবং
নবম-লিওনাইন চেস ক্লাব পয়েন্ট-৩।
নবম স্থান লাভ করায় লিওনাইন চেস ক্লাব এবং অংশগ্রহণ না করায় ঢাকা মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব লিমিটেড প্রথম বিভাগে নেমে গেছে।

যুগ্মভাবে শীর্ষে শেখ রাসেল-নৌবাহিনী

বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের আয়োজনে ও ওয়ালটন গ্রুপের পৃষ্ঠাপোষকতায় ‘ওয়ালটন প্রিমিয়ার ডিভিশন দাবা লিগ-২০১৫’ এর অষ্টম রাউন্ডের খেলা শেষে ৭ খেলায় ১৩ পয়েন্ট করে নিয়ে শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাব ও গতবারের চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ নৌবাহিনী দাবা দল যুগ্মভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষস্থান অক্ষুন্ন রেখেছে।
বাংলাদেশ নৌবাহিনী জুনিয়র দাবা দল ৭ খেলায় ৯ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে এবং গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাব ৭ খেলায় ৮ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয় স্থানে রয়েছে। শেখ রাসেল ও বাংলাদেশ নৌবাহিনী উভয় দলই ২৩ করে গেম পয়েন্ট (বোর্ড পয়েন্ট) অর্জন করেছে।
রোববার জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের এনএসসি টাওয়ারের অডিটোরিয়াম লাউঞ্জে অনুষ্ঠিত অষ্টম রাউন্ডের খেলায় শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাব ৩.৫-০.৫ পয়েন্টে বাংলাদেশ নৌবাহিনী জুনিয়র দাবা দলকে পরাজিত করে। শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের পক্ষে গ্র্যান্ড মাস্টার দিব্যেন্দু বড়ুয়া, আন্তর্জাতিক মাস্টার দিপ্তায়ন ঘোষ ও ফিদে মাস্টার মেহেদী হাসান পরাগ যথাক্রমে নৌবাহিনী জুনিয়র দাবা দলের ফিদে মাস্টার খন্দকার আমিনুল ইসলাম, ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ জাভেদ ও ক্যান্ডিডেট মাস্টার মাহতাবউদ্দিন আহমেদকে পরাজিত করেন।
এদিকে, নৌবাহিনী জুনিয়র দলের ইকরামুল হক সিয়াম শেখ রাসেল মেমোরিয়ালের গ্র্যান্ড মাস্টার নিয়াজ মোরশেদের সাথে ড্র করেন। বাংলাদেশ নৌবাহিনী দাবা দল ৪-০ পয়েন্টে সুলতানা কামাল স্মৃতি পাঠাগারকে পরাজিত করে। বাংলাদেশ নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব, আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজ উদ্দিন, গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন রাজীব ও গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান যথাক্রমে সুলতানা কামালের সুজন, কাজী মোঃ মাহবুব আফজাল, দেওয়ান মোঃ রিয়াদ ও মোঃ শফিকুল ইসলামকে পরাজিত করেন।
গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাব এ রাউন্ডে সোনালী ব্যাংক ক্রীড়া ও বিনোদন ক্লাবকে ৩-১ পয়েন্টে পরাজিত করে। গোল্ডেন স্পোর্টিংয়ের আন্তর্জাতিক মাস্টার আবু সুফিয়ান শাকিল, প্রান্তিক রায় ও শ্রিজিৎ পল যথাক্রমে সোনালী ব্যাংকের বেলাল হোসেন, আবু হানিফ ও মতিউর রহমান মামুনকে পরাজিত করেন। সোনালী ব্যাংকের মোঃ আবজিদ রহমান গোল্ডেন স্পোর্টিংয়ের ফিদে মাস্টার দেবরাজ চ্যাটার্জীর বিরুদ্ধে হয়। প্রিতম-প্রিজম চেস ক্লাব নারায়ণগঞ্জ এ রাউন্ডে তিতাস ক্লাব দাবা দলের সাথে ২-২ পয়েন্টে ড্র করে। প্রিতম-প্রিজমের পক্ষে শাহনাজ মোহাম্মদ ফারুক ও মোহাম্মদ ইব্রাহীম হোসেন যথাক্রমে তিতাসের ফিদে মাস্টার রেজাউল হক ও আন্তর্জাতিক মহিলা মাস্টার সাহেলী বড়ুয়া ধরকে পরাজিত করেন। তিতাস ক্লাবের রাজদীপ সরকার ও ফিদে মাস্টার ইউনুস হাসান যথাক্রমে প্রিতম-প্রিজমের মোকাদ্দেসুর রহমান খান ও অনতা চৌধুরীকে পরাজিত করেন। লিওনাইন চেস ক্লাবের এ রাউন্ডে বিরতি ছিল।
সোমবার নবম বা শেষ রাউন্ডের খেলায় শিরোপা জয়ের জন্য শেখ রাসেল মেমোরিয়াল তিতাস ক্লাবের বিপক্ষে এবং বাংলাদেশ নৌবাহিনী লিওনাইন চেস ক্লাবের বিপক্ষে খেলবে।

প্রিমিয়ার ডিভিশন দাবায় শীর্ষে শেখ রাসেল-নৌবাহিনী

প্রিমিয়ার ডিভিশন দাবা লিগে সপ্তম রাউন্ডের খেলা শেষে ৬ খেলায় ১১ পয়েন্ট করে নিয়ে শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাব ও বাংলাদেশ নৌবাহিনী দাবা দল যুগ্মভাবে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষে রয়েছে। নৌবাহিনী জুনিয়র দাবা দল ৬ খেলায় ৯ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে। গোল্ডেন স্পোর্টিং ক্লাব ও তিতাস ক্লাব দাবা দল ৬ খেলায় ৬ পয়েন্ট করে নিয়ে যুগ্মভাবে তৃতীয় স্থানে রয়েছে।
শনিবার সপ্তম রাউন্ডের খেলায় শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাব ৩.৫-০.৫ পয়েন্টে সোনালী ব্যাংক ক্রীড়া ও বিনোদন ক্লাবকে হারিয়েছে। শেখ রাসেল মেমোরিয়াল স্পোর্টিং ক্লাবের গ্র্যান্ড মাস্টার দিব্যেন্দু বড়ুয়া, আন্তর্জাতিক মাস্টার দিপ্তায়ন ঘোষ ও গ্র্যান্ড মাস্টার নিয়াজ মোরশেদ যথাক্রমে সোনালী ব্যাংকের দেওয়ান শহিদুল আমিন, বেলাল হোসেন ও মো. আবজিদ রহমানকে হারিয়েছে। শেখ রাসেল মেমোরিয়ালের ফিদে মাস্টার মেহেদী হাসান পরাগ সোনালী ব্যাংকের মো. আবু হানিফের সাথে ড্র করেছেন।
বাংলাদেশ নৌবাহিনী দাবা দল ৩.৫-০.৫ পয়েন্টে তিতাস ক্লাব দাবা দলকে হারিয়েছে। নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার মোল্লা আব্দুল্লাহ আল রাকিব, গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন রাজীব ও গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান যথাক্রমে তিতাস ক্লাবের ফিদে মাস্টার রেজাউল হক, ফিদে মাস্টার ইউনুস হাসান ও ফিদে মাস্টার মো. সাইফ উদ্দীনকে হারিয়েছে। তিতাস ক্লাবের ভারতীয় খেলোয়াড় রাজদীপ সরকার নৌবাহিনীর আন্তর্জাতিক মাস্টার মোহাম্মদ মিনহাজ উদ্দিনের সাথে ড্র করেছেন।
বাংলাদেশ নৌবাহিনী জুনিয়র দাবা দল এ রাউন্ডে ২.৫-১.৫ পয়েন্টে প্রিতম-প্রিজম চেস ক্লাব নারায়ণগঞ্জকে হারিয়েছে। নৌবাহিনী জুনিয়র দাবা দলের পক্ষে ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ জাভেদ ও মো. শরীফ হোসেন যথাক্রমে প্রিতম-প্রিজম চেসের মোকাদ্দেসুর রহমান খান ও মোহাম্মদ ইব্রাহীম হোসেনকে হারিয়েছে। প্রিতম-প্রিজম চেসের অনতা চৌধুরী নৌবাহিনী জুনিয়র দাবা দলের ক্যান্ডিডেট মাস্টার মাহতাবউদ্দিন আহমেদকে হারিয়েছে। প্রিতম-প্রিজম চেসের খন্দকার কায়েস হাসান নৌবাহিনী জুনিয়র দাবা দলের ফিদে মাস্টার খন্দকার আমিনুল ইসলামের সাথে ড্র করেছেন। লিওনাইন চেস ক্লাব ৩-১ পয়েন্টে সুলতানা কামাল স্মৃতি পাঠাগারকে হারিয়েছে। লিওনাইন চেসের শামসুল কবীর চৌধুরী, মো. খোরশেদ আলম ও ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ আব্দুল মালেক যথাক্রমে সুলতানা কামাল পাঠাগারের সুজন, মাসুদুর রহমান বারী ও দেওয়ান মো. রিয়াদকে হারিয়েছেন। সুলতানা কামাল পাঠাগারের এম এম জহিরুল ইসলাম লিওনাইনের প্রতুল চন্দ্র বোসকে পরাজিত করেছেন।

দাবার খবর

গতকাল প্রিমিয়ার দাবার পঞ্চম রাউন্ডের খেলায় নৌবাহিনী ৩.৫-০.৫ পয়েন্টে সোনালী ব্যাংককে ও নৌবাহিনী জুনিয়র দাবা দল ৩-১ পয়েন্টে লিওনাইন চেস ক্লাবকে হারিয়েছে। নৌবাহিনীর গ্র্যান্ড মাস্টার আব্দুল্লাহ আল রাকিব, গ্র্যান্ড মাস্টার এনামুল হোসেন রাজীব ও গ্র্যান্ড মাস্টার জিয়াউর রহমান যথাক্রমে সোনালী ব্যাংককের দেওয়ান শহিদুল আমিন, আবু হানিফ ও আবজিদ রহমানকে হারান। সোনালী ব্যাংকের মতিউর রহমান মামুন নৌবাহিনীর ফিদে মাস্টার সেখ নাসির আহমেদের সাথে ড্র করেন। নৌবাহিনী জুনিয়র দাবা দলের ফিদে মাস্টার জাভেদ, ক্যান্ডিডেট মাস্টার মাহতাবউদ্দিন আহমেদ ও শরীফ হোসেন যথাক্রমে লিওনাইনের খোরশেদ আলম, কুতুবউদ্দিন এবং ফিদে মাস্টার মোহাম্মদ আব্দুল মালেককে হারিয়েছেন।