টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট খেলবেন না তামিম

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট খেলবেন না তামিম

দেশের হয়ে আর টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট খেলতে চান না দেশসেরা উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান তামিম ইকবাল। দীর্ঘদিন পর টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে ফিরে পরপর দুই ম্যাচে দুই ফিফটি তামিম ইকবালের ব্যাটে। বিপিএলের প্রথম দুই ম্যাচে মিনিস্টার ঢাকার জার্সিতে ফিফটি পেয়েছেন এই বাঁহাতি ওপেনার। তবে তার ধীর গতির ব্যাটিংয়ে দল জেতেনি একটিতেও। হেরেছ দুই ম্যাচেই। 

এমন ব্যাটিং তামিম নিজেও হয়তো উপভোগ করছেন না। এজন্য এ ফরম্যাট থেকে নিজেকে সরিয়ে নেওয়ার প্রয়োজন অনুভব করছেন। বিশেষ করে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে জাতীয় দলকে প্রতিনিধিত্ব করতে চাইছেন না। নিজের এ সিদ্ধান্ত তিনি জানিয়েছেন, বোর্ড প্রধান নাজমুল হাসান পাপনকে।

বাংলাদেশের হয়ে তামিম সবশেষ টি-টোয়েন্টি খেলেছেন গত বছরের মার্চে, জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে। এরপর টানা ১২ টি-টোয়েন্টি ম্যাচ না খেলায় বিশ্বকাপ থেকে নিজেকে সরিয়ে নেন। অনুশীলনের ঘাটতি এবং অন্যান্য পারিপার্শ্বিকতা মিলিয়ে সরে আসেন তিনি। তখন থেকেই গুঞ্জন ছড়াতে থাকে এই ফরম্যাট থেকে তামিম নিজেকে সরিয়ে নেবেন।

বিশ্বকাপের পর নাজমুল হাসানের সঙ্গে আলোচনায় বসে তামিম নিজের সিদ্ধান্ত জানান। আনুষ্ঠানিকভাবে আজই বিসিবি প্রধান তামিমের সিদ্ধান্ত গণমাধ্যমে বলেছেন। শনিবার বিপিএলের খেলা শেষে নাজমুল হাসান বলেন, ‘ওর (তামিম) সাথে শেষ যখন কথা হয়েছে আমি বলেছিলাম, তুমি টি-টোয়েন্টিতে আবার ফিরে আসো। এটা ছাড়বা কেন? তুমি আমাদের সেরা ওপেনার। অবশ্যই তোমার থাকা উচিৎ।’

‘টেলিফোনে কথা হয়েছিল। ও আমাকে একটা কথা বলেছে, ‘‘আপনি আমাকে জোর করবেন না। আপনি বললে তো আসতেই হবে। আমি আসলেই এই ফরম্যাটে খেলতে চাই না।’’ এটা বলার পর আমার মনে হয়েছে ওকে আর কিছু বলা উচিৎ না। কেউ যদি খেলতেই না চায় তাহলে কাউকে জোর করে একটা ফরম্যাটে খেলানো ঠিক না।’ – যোগ করেছেন নাজমুল হাসান। 

প্রথম ম্যাচে তামিম খুলনার বিপক্ষে ৪২ বলে ৫০ রান করেন। আজ তার ব্যাট থেকে ৪৫ বলে ৫২ রান আসে। দুই ইনিংসেই তার ব্যাটিং ছিল ধীর গতির। আবার ম্যাচের গুরুত্বপূর্ণ সময়ে নিজের উইকেট বিলিয়ে এসেছেন। ভালো খেললেও তামিমের ইনিংস বড় না হওয়ার আক্ষেপ ঝরল নাজমুল হাসানের কণ্ঠে, ‘তামিম ভালো খেলেছে। ও তো সবসময়ই ভালো খেলে। ইনিংস আরও বড় করা উচিৎ। ফিফটি হয়ে গেলেই মারমুখো হতে যাচ্ছে আউট হয়ে যাচ্ছে। ইনিংস আরও বড় করা উচিৎ, কারণ ও সত্যিই অনেক ভালো খেলছে।’

অক্টোবরে অস্ট্রেলিয়া বিশ্বকাপে সরাসরি অংশগ্রহণ করবে বাংলাদেশ। এশিয়ার দুই পরাশক্তি ভারত ও পাকিস্তানের সঙ্গে গ্রুপ-২ এ পড়েছে বাংলাদেশ। যেখানে আরেক দল দক্ষিণ আফ্রিকা। বাকি দুটি দল যুক্ত হবে প্রথম রাউন্ড থেকে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




bangladesherkhela.com 2019
Developed by RKR BD