স্মিথের ঝড়ো সেঞ্চুরিতে সিরিজ হারলো ভারত

স্মিথের ঝড়ো সেঞ্চুরিতে সিরিজ হারলো ভারত

সাবেক অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথের টানা দ্বিতীয় সেঞ্চুরি ও অন্য চার ব্যাটসম্যানের ফিফটিতে ভারতের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ জয় নিশ্চিত করলো স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়া। আজ রোববার সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে অস্ট্রেলিয়া ৫১ রানে হারিয়েছে ভারতকে। ফলে তিন ম্যাচের সিরিজ জয়ের পাশাপাশি ২-০ ব্যবধানে এগিয়েও গেল অসিরা। ৬৪ বলে ১০৪ রান করে ম্যাচ সেরা হন স্মিথ।

প্রথম ম্যাচে ৬৬ বলে ১০৫ রান করেছিলেন তিনি। স্মিথের সাথে ঐ ম্যাচে ১১৪ রান করেছিলেন অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ। সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে দ্বিতীয় ম্যাচেও টস জিতে আবারো প্রথমে ব্যাটিং করতে নামে অস্ট্রেলিয়া। প্রথম ওয়ানডের মত এবারও দলকে দুর্দান্ত সূচনা এনে দেন অস্ট্রেলিয়ার দুই ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার ও ফিঞ্চ। ২২ ‌ওভার ৫ বলে ১৪২ রান যোগ করেন তারা। আগের ম্যাচে ১৫৬ রান যোগ করেছিলেন ওয়ার্নার-ফিঞ্চ।

৬০ রান করা ফিঞ্চকে শিকার করে ভারতকে প্রথম সাফল্য এনে দেন পেসার মোহাম্মদ সামি। সেঞ্চুরির সম্ভাবনা ছিলো ওয়ার্নারেরও। কিন্তু ব্যক্তিগত ৮৩ রানে রান আউট হন এই বাঁ-হাতি ব্যাটসম্যান। ৭৭ বল খেলে ৭টি চার ও ৩টি ছক্কা মারেন তিনি। দলীয় ১৫৬ রানে দুই ওপেনারের বিদায়ের পর অস্ট্রেলিয়ার বড় সংগ্রহে ভিত গড়েন স্মিথ ও মার্নাস লাবুশেন। ৯৫ বলে ১৩৬ রান যোগ করেন তারা।

এরমধ্যে ওয়ানডে ক্যারিয়ারের ১১তম সেঞ্চুরি তুলে নেন স্মিথ। প্রথম ম্যাচের মত আজও ৬২ বলে সেঞ্চুরি পূর্ণ করেন তিনি। ভারতের বিপক্ষে পঞ্চম সেঞ্চুরি তার। ১৪টি চার ও ২টি ছক্কায় নিজের নান্দনিক ইনিংসটি সাজিয়ে ভারতের পেস অলরাউন্ডার হার্দিক পান্ডিয়ার বলে আউট হন স্মিথ।

স্মিথের বিদায়ের পর অস্ট্রেলিয়াকে রানের চূড়ায় বসিয়েছেন লাবুশেন ও গ্লেন ম্যাক্সওয়েল। ৪৫ বলে ৮০ রানের জুটি গড়েন তারা। ফলে ৫০ ওভারে ৪ উইকেটে ৩৮৯ রানের পাহাড় গড়ে অস্ট্রেলিয়া। নিজেদের ক্রিকেটে তৃতীয় ও ভারতের বিপক্ষে এটি সর্বোচ্চ দলীয় রান অস্ট্রেলিয়ার। লাবুশেন ৬১ বলে ৭০ ও ম্যাক্সওয়েল ২৯ বলে অপরাজিত ৬৩ রান করেন।

৩৯০ রানের পাহাড় সমান টার্গেট স্পর্শ করতে নেমে ভারতের দুই ওপেনার বড় ইনিংস খেলতে ব্যর্থ হন। শিখর ধাওয়ান ২৮ ও মায়াঙ্ক আগারওয়াল ৩০ রান করে আউট হন। মিডল-অর্ডারে শ্রেয়াস আইয়ারও ৩৮ রানের বেশি করতে পারেননি। তবে অধিনায়ক বিরাট কোহলি ও লোকেশ রাহুল হাফ-সেঞ্চুরির স্বাদ নিয়েছেন। কোহলি-আইয়ার-রাহুল-হার্দিক তিনটি ভালো জুটি গড়েন। কিন্তু সেগুলোকে ভারতের জয়ের জন্য যথেষ্ট ছিলো না। আইয়ারের সাথে ৯৩ ও রাহুলের সাথে ৭২ রানের জুটি গড়েন কোহলি। আর রাহুল-হার্দিক ৬৩ রানের জুটি গড়েছিলেন।

তবে কোহলি ৮৭ বলে ৮৯, রাহুল ৬৬ বলে ৭৬ রান করে ফিরলে ভারতের জয়ের আশা শেষ হয়ে যায়। আগের ম্যাচে ৯০ রান করা হার্দিক এবার ২৮ রানের বেশি করতে পারেননি। শেষ দিকে রবীন্দ্র জাদেজার ১১ বলে ২৪ রানে হারের ব্যবধান কমাতে পারে ভারত। ৫০ ওভারে ৯ উইকেটে ৩৩৮ রান করে সিরিজ হারে ভারত। অস্ট্রেলিয়ার কামিন্স ৩টি, হ্যাজেলউড-জাম্পা ২টি করে উইকেট নেন।

আগামী ২ ডিসেম্বর ক্যানবেরাতে হবে সিরিজের তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




bangladesherkhela.com 2019
Developed by RKR BD