সন্ধ্যা ৬:২৫, মঙ্গলবার, ২৫শে জুন, ২০১৯ ইং
/ আর্ন্তজাতিক / লালকার্ডের ক্রিকেট বিশ্বকাপ
লালকার্ডের ক্রিকেট বিশ্বকাপ
মে ৩০, ২০১৯



ফুটবলের কাছে রিনি হয়ে গেল এবারের বিশ্বকাপ ক্রিকেট। কারণ ফুটবলের মতো এবারই প্রথম ক্রিকেটে থাকছে 'লাল কার্ড'। শুনতে অবাক লাগলেও এবার বিশ্বকাপে এমনই হবে। মাঠে অশালীন আচরণ ঠেকাতে আইসিসি বদ্ধপরিকর। আর তাই এবার বিশ্বকাপে আম্পায়ারদের পকেটে থাকবে লাল কার্ড। কোনও ক্রিকেটারকে মাঠ থেকে বের করে দেয়া এবং বিপক্ষকে পাঁচ রান বোনাস দেয়ার আইন চালুর পর এই প্রথম ক্রিকেট বিশ্বকাপ আয়োজিত হচ্ছে। তাতে এবার একগুচ্ছ নতুন নিয়মের সঙ্গে পরিচিত হবেন দর্শকরা।

ক্রিকেটারদের অশালীন আচরণ চার ভাগে ভাগ করা হয়েছে। এই চার স্তরের ভিত্তিতে শাস্তি হতে পারে ক্রিকেটারদের।

লেভেল ওয়ান: অকারণে আম্পায়ারের সামনে অতিরিক্ত আপিলের ভঙ্গি দেখানো। অথবা আম্পায়ারের চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত মেনে না নেওয়া। প্রথমবার সতর্ক করতে পারেন আম্পায়ার। কিন্তু দ্বিতীয়বার হলে শাস্তি হিসেবে বিপক্ষকে পাঁচ রান বোনাস দেওয়া হবে।

লেভেল টু: কোনও খেলোয়াড়ের দিকে ইচ্ছাকৃতভাবে বল থ্রো করা। অথবা ইচ্ছে করে কোনও ক্রিকেটারকে ধাক্কা দেয়া বা দৌড়নোর সময় বাধা সৃষ্টি করা। শাস্তি হতে পারে একই। বিপক্ষ দল পাবে পাঁচ রান।

লেভেল থ্রি: আম্পায়ারকে ভয় দেখানো। অন্য কোনও ক্রিকেটার, কর্তা বা দর্শককে আক্রমণের হুমকি দেওয়া। শাস্তি হিসাবে বিপক্ষ দল পাঁচটি পেনাল্টি রান পেতে পারে। অথবা দোষী খেলোয়াড়কে নির্দিষ্ট সংখ্যক ওভারের জন্য মাঠ থেকে বের করে দিতে পারেন আম্পায়ার।

লেভেল ফোর: আম্পায়ারকে হুমকি দিলে অথবা মাঠে কোনও রকম হিংসাত্মক আচরণ করলে শাস্তির মুখে পড়তে হতে পারে ক্রিকেটারকে।। এক্ষেত্রেও বিপক্ষকে পাঁচটি পেনাল্টি রান দেওয়া হতে পারে। এছাড়া দোষী ক্রিকেটারকে ম্যাচের বাকি সময়ের জন্য মাঠ থেকে বের করে দিতে পারেন আম্পায়ার।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :