বিকাল ৫:১২, বুধবার, ২২শে মে, ২০১৯ ইং
/ আর্ন্তজাতিক / নেইমারের আনন্দবেলা
নেইমারের আনন্দবেলা
মার্চ ৬, ২০১৯



ইনজুরি মাঠে থেকে সরিয়ে রেখেছে বিশ্বের সবচেয়ে দামী ফুটবলার নেইমারকে। কবে ফিরবেন তা‌ও অজানা। তার অপেক্ষায় রয়েছে প্যারিস সেন্ট জার্মেই। আর দেশে ফিরে পরিবার এবং বন্ধুদের নিয়ে রি‌ও কার্নিভালে মেতে রয়েছেন নেইমার।

ইনস্টাগ্রামেও সেই ছবি পোস্ট করেছেন ব্রাজিলীয় তারকা। তিনি লিখেছেন, ‘রঙিন উৎসবে সকলে মেতে উঠেছেন। আমিও নিজেকে সংযত রাখতে পারলাম না।’ নেমারের সঙ্গে এই উৎসবে অংশ নেন তাঁর মা এবং ব্রাজিলের জনপ্রিয় পপ গায়িকা অ্যানিটা। রি‌ও কার্নিভালে অ্যানিটার সঙ্গেই নেইমারের ঘনিষ্টতা দেখা যায়। তাই অনেকেই তাদের এই ঘনিষ্ঠতা দেখে নতুন প্রেমের গন্ধ‌ও পাচ্ছেন।

প্যারিস সেন্ট জার্মেই তারকা নেইমার উৎসবে মেতে থাকলেও ২০১৮ রাশিয়া বিশ্বকাপে নাটুকেপনা এবং মাঠের মধ্যে পড়ে যাওয়ার ঘটনা নিয়ে বিতর্ক চলছেই। ব্রাজিলের এক টেলিভিশন চ্যানেলে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ২৭ বছরের ব্রাজিলীয় তারকা বলেন, ‘রাশিয়া বিশ্বকাপের প্রত্যেকটি ম্যাচ পরে আমিও খুব খুঁটিয়ে দেখেছি। সেটা দেখে কখনও কি কারও এটা মনে হতে পারে, আমি ইচ্ছা করে পড়ে গিয়েছি বা ডাইভ দিয়েছি? যদি তাই ভেবে থাকেন, তা হলে আমার কিছু বলার নেই।’

সেখানেই থামেননি নেইমার। তিনি আরও বলেন, ‘আমার আঘাতের মুহূর্তগুলোকে অতিরঞ্জিত করা হয়েছে। ব্রাজিল হারলেই দায়ভার আমার কাঁধে চাপিয়ে দেওয়া হয়। আমি একা কেন দায়ী হবো। সেটা বুঝতে পারি না।’ তিনি আরো বলেন, ‘দেশের হয়ে নিজেকে উজাড় করে দেওয়ার চেষ্টা করি। এবং বরাবর তাই করে যাব।’

আজ বুধবার রাতে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে শেষ ষোলোর দ্বিতীয় লেগে প্যারিস সেন্ট জার্মেই মুখোমুখি হবে ইংলিশ জায়ান্ট ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের বিপক্ষে। প্রথম লেগে ২-০ গোলে এগিয়ে থাকায়, কোয়ার্টার ফাইনালে ‌ওঠার পথে কিছুটা সুবিধাজনক অবস্থানে নেইমারের দল্।

এদিকে রি‌ও কার্নিভালের আগে, নেইমার যোগ দিয়েছিলেন সালভাদরের বাহাই কার্নিভালে। সেখানে তার সঙ্গে ছিলেন সার্ফার চ্যাম্পিয়ন গ্যাব্রিয়েল মেদিনা।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :