দুপুর ১:০৯, শনিবার, ২৩শে মার্চ, ২০১৯ ইং
/ ক্রিকেট / হোয়াইট ‌ওয়াশ এড়ানোর চ্যালেঞ্জ বাংলাদেশের
হোয়াইট ‌ওয়াশ এড়ানোর চ্যালেঞ্জ বাংলাদেশের
ফেব্রুয়ারি ১৯, ২০১৯



সিরিজের তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডেতে কাল স্বাগতিক নিউজিল্যান্ডের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ। টানা দুই ম্যাচ হেরে আগেই সিরিজ খোঁয়ানোয় শেষ ম্যাচটি সফরকারীদের কাছে কেবলই হোয়াইট ওয়াশের লজ্জা এড়ানোর সুযোগ। তবে মুশফিক আর মিথুনের ইনজুরিতে, টাইগার শিবিরে এখন শেষ ওয়ানডের জন্য একাদশ সাজানোই হয়ে দাঁড়িয়েছে দুশ্চিন্তা। ডানেডিনে বাংলাদেশ সময় ভোর চারটায় শুরু হবে ম্যাচটি।

বিশ্বকাপের স্কোয়াড ঘোষণার আগে শেষ ওয়ানডে সিরিজ। এবারের নিউজিল্যান্ড সফরের ওযানডে সিরিজ নিয়ে খেলোয়াড়দের প্রেরণা থাকার কথা ছিলো বেশি। কিন্তু টানা দুই ম্যাচে কেবল হারই মানেনি মাশরাফীর দল, বরং তেমন কোনো প্রতিরোধই গড়তে পারেননি, মুশফিক-তামিম-মুস্তাফিজরা।

সিরিজ খোয়ানোর পর টাইগারদেও সামনে হোয়াইট ওয়াশের লজ্জা এড়ানোর চ্যালেঞ্জ। কিন্তু ইনজুরির কারণে একাদশ সাজানোটাই কঠিন হয়ে পড়েছে টিম ম্যানেজম্যান্টের জন্য। তবে ভারসাম্য দল নিয়েই মাঠে নামতে চান বাংলাদেশের অধিনায়ক। মাশরাফী বিন মোর্ত্তজা বলেন, বিশ্বকাপ দল বাছাইয়ের আগে এটিই শেষ ম্যাচ। তবে খুব বেশি বদলের কিছু নেই। এই দল ভালো করার জন্য যথেষ্ট অভিজ্ঞ। কিছু কিছু ব্যাপার অবশ্যই আমাদের চাওয়া মতো হয়নি এই সিরিজে। দেখা যাক, একটি ম্যাচ এখনও বাকি আছে, আয়ারল্যান্ড সফর ও বিশ্বকাপের জন্য আত্মবিশ্বাস কিছুটা মেলে কিনা।

আগের সফরে টেস্ট খেলার সুবদে ডানেডিনের উইকেট আর কন্ডিশন সম্পর্কে ধারণা আছে টাইগারদের। সে অভিজ্ঞতাই কাজে লাগানোর ইচ্ছে অধিনায়কের। মাশরাফী জানান, যতটা জানি, উইকেট ব্যাটিংয়ের জন্য বেশ ভালো। আমরা এখানে আগে টেস্ট খেলেছি, সেখানেও বেশ ভালো ব্যাট করেছিলাম। এখানে শেষ ম্যাচে নিউজিল্যান্ড খেলেছিল ইংল্যান্ডের বিপক্ষে। সেই ম্যাচে ৩৪০ রান তাড়ায় নিউজিল্যান্ড জিতে গিয়েছিল। এবারও উইকেট ভালো হবে বলেই মনে হচ্ছে। আশা করি আমরা সেটি বুঝতে পারব এবং ভালো কিছু করতে পারব।

মিথুনের পরিবর্তে মুমিনুলের এ ম্যাচে খেলা প্রায় নিশ্চিত। তবে দলে ব্যাটসম্যানের সংখ্যা এমনিতেই কম হওয়ায়, শতভাগ ফিট না হলেও মুশফিককে পেতে শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত অপেক্ষা করতে চায় টীম ম্যানেজমেন্ট।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :