বিকাল ৩:৪৯, সোমবার, ১৯শে নভেম্বর, ২০১৮ ইং
/ আর্ন্তজাতিক / নেপাল-মালদ্বীপ দুই দলেরই লক্ষ্য ফাইনাল
সাফ ফুটবল চ্যাম্পিয়নশীপ
নেপাল-মালদ্বীপ দুই দলেরই লক্ষ্য ফাইনাল
সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৮



সাফ ফুটবলের চলতি আসরে যাত্রাটা সুখকর ছিল না নেপালের জন্য। গ্রুপে নিজেদের প্রথম ম্যাচে পাকিস্তানের কাছে ২-১ গোলে হারের মধ্য দিয়ে আসর শুরু করে, পরের দুই ম্যাচে জয় তুলে নিয়ে সেমিফাইনাল নিশ্চিত করার পর এখন ফেবারিটের আসনে তারা। বিশেষ করে স্বাগতিক বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ২-০ গোলের দারুন জয়ের পর বেশ উজ্জীবিত এখন নেপালিরা। শিরোপা জয়ের স্বপ্নও দেখছে এখন হিমালয়ে কন্যার এই দলটি। আগামীকাল বুধবার শিরোপা জয়ের মিশনের আরো একধাঁপ এগিয়ে যেতে তাদের মুখোমুখি হতে হবে মালদ্বীপের। বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে বিকেল চারটায় শুরু হবে টুর্নামেন্টের প্রথম সেমিফাইনালকে ঘিরে বেশ উজ্জিবীত নেপাল ফুটবল দল। তবে ফাইনালের স্বপ্ন দেখা হিমালয়ের দেশটিকে প্রচ্ছন্ন একটা হুমকি দিয়ে রাখছে মালদ্বীপ। তাদেরও দৃষ্টি শিরোপা নির্ধারনী ম্যাচের দিকে। নেপালকে হারিয়ে ফাইনালের মহামঞ্চে পা রাখতে চায় তারা।

গ্রুপ পর্বে ভুটান ও বাংলাদেশকে হারানোর পর গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হিসেবে সেমি ফাইনাল নিশ্চিত করা নেপালের মূল ভরসা তাদের আক্রমন ও রক্ষণভাগ। আত্মবিশ্বাসে টইটুম্বুর দলটির কোচ বাল গোপাল মহার্জনের লক্ষ্য এখন ফাইনাল খেলা, ‘আমরা ভালো অবস্থায় আছি। দলে ইনজুরি সমস্যা নেই। নিজেদের যোগ্যতা প্রমান করেছি গ্রুপ পর্বে। আশাকরি আগামীকালও নিজেদের প্রমান করবে ছেলেরা। সর্বশেষ দুই ম্যাচে মালদ্বীপের বিরুদ্ধে আমাদের জয় আছে। নেপালি ফুটবলের জন্য একটি নতুন ইতিহাস রচনা করবো কাল। গ্রুপ পর্বে যেভাবে খেলেছে, সেই ধারাটা ধরে রাখতে পারলেই হবে। ছেলেদের উপর আমার বিশ্বাস আছে।’

অধিনায়ক বিরাজ মহার্জনও বেশ আত্মবিশ্বাসী, ‘কাল আমাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ একটি দিন। আশাকরি দেশের জন্য কিছু একটা করে দেখাতে পারবো। এজন্য আমরা রোমাঞ্চিত এবং আত্মবিশ্বাসী। তবে অতি আত্মবিশ্বাসী নই।’

ভাগ্যের সহায়তা নিয়ে সেমি ফাইনালে উঠে আসা মালদ্বীপ শিবিরে রয়েছে ইনজুরি সমস্যা। তবে সবকিছু সামলে নিয়ে ফাইনালে খেলার লক্ষ্য নিয়েই কাল দল মাঠে নামবে বলে জানালেন কোচ পিটার সেগার্ট, ‘শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে আমাদের কয়েকজন ফুটবলার ইনজুরিতে পড়েছিল। তবে সেই ইনজুরি নিয়ে চিন্তিত নই। যারা খেলার উপযুক্ত তাদের নিয়ে কাল সেমি ফাইনালে লড়াইয়ের জন্য প্রস্তুত আছি। নেপাল অবশ্যই শক্তিশালী দল। তবে আমরাও আগের চেয়ে ভালো খেলার চেষ্টা করবো। ফাইনালে খেলার লক্ষ্য পূরনের জন্য আমরা সেরাটাই দেয়ার চেষ্টা করবো। আশাকরি সফল হবো। অতীত নিয়ে আমি ভাবছি না। সেটা আমার কাছে মূখ্য বিষয় নয়। আমার কাছে এ মুহূর্তে বড় বিষয় রেজাল্ট। যেহেতু এটা সেমি ফাইনাল, তাই জয়-পরাজয় থাকবেই। আমরা জয়ের জন্যই খেলবো। সে অপেক্ষাতেই আছি। নেপাল ভালো দল।’



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :