সকাল ৮:১৪, শুক্রবার, ১৭ই আগস্ট, ২০১৮ ইং
/ কারাতে / মহিলা উশুতে আনসার চ্যাম্পিয়ন
সমর্থকদের হাতাহাতি
মহিলা উশুতে আনসার চ্যাম্পিয়ন
জুলাই ১৯, ২০১৮



আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে উশুতে আনসারের বাসনা খন্দকার ও সেনাবাহিনীর আসমা আক্তারের লড়াইকে কেন্দ্র করে দু’দলের সমর্থকদের মধ্যে হাতাহাতি হয়। পরে অবশ্য উশু কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি শান্ত হয়। সকালেও একবার এমন ঘটনা ঘটেছিল। উত্তেজনার বাতাবরন ছড়িয়ে যাওয়া ওয়ালটন জাতীয় মহিলা উশুতে জয়জয়কার বাংলাদেশ আনসারের। ১৮টি স্বর্ণপদকের মধ্যে তারা জিতে নিয়েছে ১৪টি। এছাড়া ছয়টি রুপা ও চারটি ব্রোঞ্জও তাদের দখলে। এদিকে, রানার আপ বাংলাদেশ সেনাবাহিনী জিতেছে চারটি স্বর্ণ, নয়টি রুপা ও তিনটি ব্রোঞ্জ।

সান্দা ইভেন্টের ৭৫ কেজি ওজন শ্রেণীতে লড়ছিলেন বাসনা খন্দকার ও আসমা আক্তার। তৃতীয় রাউন্ডে গিয়ে রেফারির একটি সিদ্ধান্ত নিয়ে বাধে বিপত্তি। উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে আনসার এবং সেনাবাহিনীর বাকি খেলোয়াড় ও সমর্থকদের মধ্যে। তবে শেষ পর্যন্ত দু’রাউন্ড জেতায় আনসারের বাসনাকেই জয়ী ঘোষণা করেন জাজ। বাসনার আন্দাশ্রু থাকলেও ক্ষোভ আর হতাশার অশ্রু ঝড়েছে আসমার চোখে। অনিয়ম করেই নাকি হারানো হয়েছে তাকে। ভিন্ন কথা বাসনার মুখে, লড়েই জিতেছে এবং স্বর্ণপদক পেয়েছি।

উশুর জন্মলগ্ন থেকেই আনসারের আধিপত্য ছিল চোখে পড়ার মতো। এবারও সেরার মুকুট পড়ে উল্লসিত সার্ভিসেস দলটির খেলোয়াড়রা। পরে আনসারের ক্রীড়া পরিচালক নিমাই কুমার দাস ও ক্রীড়া অফিসার রায়হান ফকির উশুসহ অন্য ডিসিপ্লিনের খেলোয়াড়দের আর্থিক পুরস্কারের কথা জানান। রায়হান ফকির জানান, বাংলাদেশ আনসারের মহাপরিচালক ইতিমধ্যে ঘোষণা দিয়েছেন, গেল ছয় মাসে দেশে ও বিদেশে বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় পদক জয়ীদের প্রায় ৩৩ লাখ টাকা প্রাইজমানি পুরস্কার দেয়া হবে। যাদের মধ্যে এবারের জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপে পদকজয়ীরাও থাকবে।’

অনিয়মের অভিযোগও রয়েছে জাতীয় উশুতে। কুড়িগ্রামের উশুকা রাজীয়া সুলতানা রানী রাস্তার জ্যামের কারণে আসতে ১০ মিনিট দেরি হয়েছে। কিন্তু ৪৮ কেজি ওজন শ্রেণী রেখেই তার ৫২ কেজিও ওজন শ্রেণীর খেলা আগে চালিয়ে ফরিদপুরের উশুকাকে ওয়াকওভার দিয়ে দেন কর্তৃপক্ষ। এমন ঘটনায় অশ্রুর কমতি ছিল না যুব গেমসে সোনা জয়ী রানীর চোখেও। এমন বেশ কিছু অনিয়মের অভিযোগ ছিল খেলোয়াড়দের।
খেলা শেষে বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন উশু অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি আবদুস সোবহান গোলাপ। তবে এত সমস্যার মধ্যেও আশার খবর ছিল ইতি ইসলামের। ১১ মাসের মেয়েকে বাড়িতে রেখেই খেলতে এসেছেন সেনাবাহিনীর এই উশুকা। সন্তানসম্ভবা থাকায় গত আসরে খেলা হয়নি তার। এবার ফিরে এসেই জিতেছে স্বর্ণপদক।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :