সকাল ৮:৪৯, বুধবার, ২১শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং
/ আর্ন্তজাতিক / বড় জয়ে শুরু বাংলাদেশের
ত্রিদেশীয় ‌ওয়ানডে সিরিজ
বড় জয়ে শুরু বাংলাদেশের
জানুয়ারি ১৫, ২০১৮

মিরপুরে ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে জিম্বাবুয়েকে ৮ উইকেটে হারিয়ে নতুন বছরে শুভসূচনা করলো বাংলাদেশ। স্বাগতিকদের বোলিং তোপে আগে ব্যাট করা সফরকারী দল অলআউট হয় মাত্র ১৭০ রানে। জবাবে, ২১ ওভার তিন বল হাতে রেখেই জয় তুলে নেয় বাংলাদেশ। বল হাতে ৩ উইকেট আর ব্যাটে ৩৭ রান করে ম্যাচ সেরা সাকিব আল হাসান।

অগণিত ভক্তের প্রত্যাশাই পুরন করলেন তামিম, সাকিব, মুশফিকরা। ওয়ানডেতে জিম্বাবুয়ের চেয়ে বাংলাদেশ যে ভালো দল, এর প্রমান দিলেন, মিরপুরে এমন এক দাপুটে জয় দিয়ে।

অবশ্য ‘মর্নিং শোজ দ্যা ড্য’ এই প্রবাদ অনুযায়ী, ইনিংসের শুরুতেই বাংলাদেশের জয় তারা দেখে ফেলেছিলেন, যখন প্রথম ওভারেই সাকিবের তিন বলে বিদায় নেন জিম্বাবুয়ের দুই ব্যাটসম্যান।

যাদের নিয়ে ভরসা ছিলো কোচ হিথ স্ট্রিকের। সেই হ্যামিল্টন মাসাকাদজা এবং ব্রেন্ডন টেইলরও পারেননি মাশরাফি, মুস্তাফিজদের বোলিংয়ে বাধা হয়ে দাঁড়াতে। আর তাই ইনিংসের মাঝপথেই ৮১ রানে পাঁচ উইকেট হারিয়ে ধ্বংসস্তুপে পরিনত হয় সফরকারীদের ব্যাটিং লাইনআপ।

তবু মান বাঁচলো সিকান্দার রাজার ৫২ রানের ইনিংসে। ১৩১ রানে তার বিদায়। দেশের হয়ে পঞ্চম বোলার হিসেবে শততম উইকেট শিকারীর ক্লাবে নাম লেখান রুবেল হোসেন।

আর ২ উইকেট পেলেও, কাটার মাস্টার মুস্তাফিজ যেনো মনে করিয়ে দিলেন তার ক্যারিয়ারের শুরুর দিনগুলোর কথা। ১০ ওভারে তার ৪১ বলেই কোন রান পাননি জিম্বাবুয়ের ব্যাটসম্যানরা।

১৭১ রানের লক্ষ্যে ব্যাটিংয়ে নামা বাংলাদেশ প্রথম উইকেট হারায় দুই বছর পর ওয়ানডে ক্রিকেট খেলতে নামা এনামুল হক বিজয়ের।

তবে দ্বিতীয় উইকেটে ৭৮ রান যোগ করে জয়ের পথটা সহজ করে দেন তামিম ইকবাল এবং সাকিব আল হাসান। ৩৭ রান করে বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার ফিরলেও, ৮৪ রানে অপরাজিত থেকে জয় নিয়েই মাঠ ছাড়েন তামিম। সব মিলিয়ে ৩৩৬ নম্বর ওয়ানডেতে যা ছিলো বাংলাদেশের ১০৬ তম জয়।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :