দুপুর ২:০৮, রবিবার, ২০শে আগস্ট, ২০১৭ ইং
/ আর্ন্তজাতিক / কিংবদন্তীদের ফুটবল ম্যাচ
কিংবদন্তীদের ফুটবল ম্যাচ
জুলাই ৮, ২০১৭

ফিফা সভাপতি জিয়ান্নি ইনফান্তিনোর আমন্ত্রনে প্রীতি ম্যাচে অংশ নিলেন, আর্জেন্টাইন ফুটবল কিংবদন্তী ডিয়াগো ম্যারাডোনা, ব্রাজিলিয়ান সাবেক মহাতারকা রোনালদোসহ ৫২ জন ফুটবলার। বিশ্বব্যাপী ফুটবলকে ছড়িয়ে দেয়ার অংশ হিসেবেই সুইজারল্যান্ডের ব্রিগে এ ম্যাচের আয়োজন করে ফিফা। ভিন্নধর্মী এই ম্যাচে অংশ নিতে পেরে সন্তুষ্ট সাবেক ফুটবলাররাও।
১৯৮৬ থেকে ২০১৭। পার হয়ে গেলো আর্জেন্টিনার বিশ্বকাপ জয়ের ৩১ বছর। তবু সেই টুর্নামেন্টে এমনই এক র্কীর্তি গড়েছিলেন ম্যারাডোনা, যা তাকে বসিয়ে দেয় কিংবদন্তীর আসনে।

দ্য ফেনোমেনন রোনালদো। ব্রাজিলের ৯৪ আর ২০০২ বিশ্বকাপজয়ী দলের অন্যতম সদস্য। সেলেসাওদের হয়ে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ গোলস্কোরারও।
আর তাই ল্যাতিন আমেরিকার দুই কিংবদন্তী যখন একই মঞ্চে হাজির হলেন, সব চোখতো তাদের দিকে আটকাবেই। খেলোয়াড়ী জীবনে দর্শকদের মাঠে আসতে বাধ্য করেছিলেন পায়ের জাদুতে। এবার তাদের মিশন ফুটবলকে সারা বিশ্বে ছড়িয়ে দেয়া।
সুইজারল্যান্ডের ব্রিগে মাঠে নেমেছিলেন ইতালিয়ান ডিফেন্ডার মার্কো মাতারাজ্জিও। যাকে দেখে অনেকেরই হয়তো মনে পড়ে গেছে ২০০৬ বিশ্বকাপে জিদানের সাথে সে কান্ডের কথা। তবে এখন তিনিও কাজ করছেন ফুটবলের উন্নয়নে।

আন্তর্জাতিক ফুটবল না খেললেও, এখনও ক্লাবের হয়ে খেলছেন জিওনলুইজি বুফন। আর তাই তাকে বোকা বানাতে একটু বেগই পেতে হয়েছে বাতিস্ততাদের। ফিফা সভাপতি বললেন, এমন আয়োজনের উদ্দেশ্য ছিলো সবার মাঝে খুশী ছড়িয়ে দেয়া। মোট ৫২ জন ফুটবলার এদিন ইতালি, সুইজারল্যান্ড আর বিশ্ব একাদশ এই তিনটি ভাগে বিভক্ত হয়ে একে অপরের মুখোমুখি হন।

বয়সের ভারে ফিটনেস অনেক আগেই হারিয়েছেন ম্যারাডোনা। মুটিয়ে গেলেও বল পায়ে দারুণ কারিকুরিতে ভক্তদের এখনো আনন্দ দিতে পারেন আর্জেন্টিনার কিংবদন্তি এ ফুটবলার। ম্যাচ শেষে প্রিয় ফুটবলারদের সঙ্গে সেলফি ও অটোগ্রাফ নিতে দেখা যায় ভক্তদের।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :