সকাল ১১:১৭, বৃহস্পতিবার, ২৩শে নভেম্বর, ২০১৭ ইং
/ আর্ন্তজাতিক / হেরেও ফাইনালে রিয়াল
উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ
হেরেও ফাইনালে রিয়াল
মে ১১, ২০১৭

হেরেও উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে রিয়াল মাদ্রিদ। সেফিাইনালের দ্বিতীয় লেগে অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদের কাছে ১-২ গোলে পরাজিত হয় রিয়াল মাদ্রিদ। দুই লেগ মিলে ৪-২ গোলে এগিয়ে থাকার সুবাদে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে উঠলো বর্তমান চ্যাম্পিয়ন রিয়াল মাদ্রিদ। অ্যাথলেটিকোর মাঠ ভিসেন্তে ক্যালদেরনে, শেষ মাদ্রিদ ডার্বিতে ঘরের সমর্থকদের সান্তনার জয় এনে দিলেও আরও একবার রিয়ালের কাছে কপাল পুড়লো অ্যাথলেটিকোর। এই নিয়ে টানা তিন মৌসুম লস ব্ল্যাঙ্কোদের কাছেই হেরে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ থেকে বিদায় নিলো অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদ।
ম্যাচের শুরুতে অবশ্য দর্শকদের সত্যিকার অর্থেই দারুণ প্রত্যাবর্তনের স্বপ্ন দেখিয়েছিলো অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদ। প্রথম আশা জাগে, যখন ১২ মিনিটেই সোউল নিগুয়েজ এগিয়ে দেন স্বাগতিকদের লা রোজাদের।
৪ মিনিট পর টোরেসকে ফাউল করায় পেনাল্টি পেয়ে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন অ্যান্টোনিও গ্রিজম্যান। প্রথম লেগের ৩ গোলের হারকে পাল্টে দেয়া তখন সময়ের ব্যাপার মনে হচ্ছিলো।
কিন্তু জিনেদিন জিদানের দল তো আর ছেড়ে কথা বলার নয়। রোনালদো-বেনজিমাদের একের পর এক আক্রমণের পরও ঘরের সমর্থকদের আশা ধরে রাখেন অ্যাথলেটিকো গোলরক্ষক জ্যান ওবলাক। তবে বিরতির আগেই তিন ডিফেন্ডারকে কাটিয়ে বেনজেমার রক্ষণভেদি শট থেকে ইসকোর গোলে কেবল ব্যবধানই কমায়নি লা ব্লাঙ্কোরা, বরং ফাইনালে খেলতে হলে অ্যাথলেটিকোকে ম্যাচে ৫ গোল করার পাহাড় সমান লক্ষ্যের সামনে দাঁড় করিয়ে দেয়।
আরও তিন গোল করায় চাপেই হয়তো দ্বিতীয়ার্ধে আর সেভাবে ম্যাচে ফিরতেই পারেনি ডিয়াগো সিমিওনের দল। অবশ্য গ্যামেইরো, গ্রিজম্যানরা কয়েকবার চেষ্টা করেও লক্ষ্যভেদ করতে পারেননি।
তাতে রেকর্ড ১৫ বার আর গেলো চার মৌসুমে তৃতীয়বার চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে পা রাখে রিয়াল মাদ্রিদ। ৩ জুন কার্ডিফে সেখানে তাদের প্রতিপক্ষ আগের দিনই ফাইনাল নিশ্চিত করা জুভেন্টাস।
এদিকে, ভিসেন্তে ক্যালদেরনে শেষবার মাদ্রিদ ডার্বি। ম্যাচে জয় পেলেও চ্যাম্পিয়ন্স লিগ থেকে বিদায় নিশ্চিত হয়ে যায় অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদের। ঐতিহ্যবাহী এ স্টেডিয়ামে শেষবার এত বড় ম্যাচ দেখলেন দর্শকরা। তাই বোধহয় মন খারাপ করে ঝরলো আকাশের কান্না। তবে ৫৩ হাজারেরও বেশি দর্শক তখনও উজ্জীবিত করে গেছেন তাদের প্রিয় দলকে।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :