রাত ৮:১২, বৃহস্পতিবার, ২১শে সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ইং
/ ফুটবল / ইতিহাসের সবচেয়ে তলানিতে বাংলাদেশের ফুটবল
ইতিহাসের সবচেয়ে তলানিতে বাংলাদেশের ফুটবল
জানুয়ারি ১২, ২০১৭

এশিয়া কাপ বাছাই পর্বের প্লে-অফের ফিরতি পর্বে ভুটানের কাছে ৩-১ ব্যবধানে পরাজয়কে মনে করা হচ্ছিল বাংলাদেশের ফুটবলের কফিনে শেষ পেরেক ঠুকে দেয়ার মত। লজ্জাজনক ওই পরাজয়ের পর অনেক কথাই উঠছে। বাফুফে কর্মকর্তাদের পদত্যাগ দাবি করা হচ্ছে সচেতন মহল থেকে। যদিও তারা ঠিকই গদি আঁকড়ে পড়ে রয়েছেন, নতুন নতুন পরিকল্পনা দিচ্ছেন, ক্যালেন্ডার ঘোষণা করছেন।

কিন্তু ভুটানের কাছে সেই পরাজয়ের ঢেউ যে কোথায় গিয়ে আছড়ে পড়তে পারে, তা হয়তো কারো কল্পনাতেই ছিল না। সেই প্রভাবটা খুব বাজেভাবেই পড়েছে ফিফা র্যাংকিংয়ের ওপর। ফিফা র্যাংকিংই বলছে ইতিহাসের সবচেয়ে তলানিতে গিয়ে ঠেকেছে বাংলাদেশের ফুটবল। আজ (১২ জানুয়ারি) প্রকাশিত ফিফা র্যাংকিংয়ে দেখা যাচ্ছে বাংলাদেশের অবস্থান ১৯০তম।

এর আগে বাংলাদেশের অবস্থান ছিল সর্বনিম্ন ১৮৮তম স্থানে। গত জুন-জুলাইতে এই অবস্থানে নেমেছিল বাংলাদেশের ফুটবল। যদিও বছরটা শেষ করেছিল ১৮৫তম স্থান নিয়ে; কিন্তু নতুন বছরের শুরুটা হলো স্রেফ একটা দুঃসংবাদ নিয়ে। ৫ ধাপ পিছিয়ে বাংলাদেশ চলে গেলো ১৯০তম স্থানে। ফিফার সদস্য মোট ২১১টি দেশ। সর্বনিম্ন ২০৫তম স্থানে রয়েছে মোট ৭টি দেশ।

তবে এ ক্ষেত্রে একটা ভিন্ন জায়গায় স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলতে পারে বাফুফে কর্মকর্তারা। কারণ, সাফ অঞ্চলে বাংলাদেশের চেয়েও খারাপ অবস্থায় রয়েছে শ্রীলংকা এবং পাকিস্তান। এ দুই দেশের অবস্থান যথাক্রমে ১৯৬ এবং ১৯৭তম। এশিয়ান অঞ্চলে সর্বশেষ ১৯৮তম স্থানে রয়েছে মঙ্গোলিয়া।

যে ভুটানের কাছে বাংলাদেশে হেরেছিল, তাদের অবস্থান ১৭৬তম। তারা এগিয়েছে এক ধাপ।  সাফ অঞ্চলে সবচেয়ে এগিয়ে ভারত। তাদের অবস্থান ১২৯তম। গত ১১ বছরের মধ্যে সবচেয়ে ভালো অবস্থানে রয়েছে তারা। সর্বশেষ ২০০৫ সালে ১২৭তম স্থানে ছিল তারা। এরপর পেছাতে পেছাতে এক সময় ভারতের অবস্থান পৌঁছে গিয়েছিল ১৭১তম স্থানে। সেটা ২০১৪ সালে। ২০১৫ সালেও ছিল ১৬৬তম স্থানে। সেখানে ২০১৬ সালেই তারা এক লাফে চলে আসলো ১৩৫তম স্থানে। এবার এলো ১২৯তম স্থানে। ইতিহাসে সবচেয়ে ভালো র্যাংকিং, ১০০, ১৯৯৩ সালে।

ফিফা র্যাংকিংয়ে কিন্তু শীর্ষস্থানগুলোতে কোনোই পরিবর্তন আসেনি। নতুন বছরের শুরুতে শীর্ষস্থান ধরে রেখেছে লিওনেল মেসির আর্জেন্টিনা। দ্বিতীয় স্থানে আছে নেইমারের ব্রাজিল। তৃতীয় স্থানে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন জার্মানি এবং চতুর্থ স্থানে আছে কোপা চ্যাম্পিয়ন চিলি। ইউরো চ্যাম্পিয়ন পর্তুগাল আগের অবস্থান ৮ম স্থান ধরে রেখেছে। শীর্ষ ৩৪টি স্থানে কোনই পরিবর্তন আসেনি এবারের ফিফা র্যাংকিংয়ে।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :