বিকাল ৩:৩৭, শনিবার, ২৫শে মার্চ, ২০১৭ ইং
/ ফুটবল / দুরন্ত জয়ে শীর্ষে রহমতগঞ্জ
দুরন্ত জয়ে শীর্ষে রহমতগঞ্জ
অক্টোবর ১৭, ২০১৬

দুরন্ত ফুটবল খেলে শেষ মুহূর্তের করা গোলে ব্রাদার্স ইউনিয়নকে ৪-৩ গালে হারিয়ে জেবি বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের পয়েন্ট তালিকায় এককভাবে শীর্ষে পৌঁছালো পুরনো ঢাকার দল রহমতগঞ্জ।.

রবিবার নির্ধারিত খেলার ৯০ মিনিট পর্যন্ত খেলা ৩-৩ গোলে ড্র ছিল। চার মিনিট ইনজুরি টাইমের শেষ মিনিটে নিজের দ্বিতীয় গোল করে দলকে জয়ী করেন দিদারুল আলম। আর এ জয়ে রহমদগঞ্জের পয়েন্ট দাঁড়ালো ১০ খেলায় ২২। চট্টগ্রাম ও ঢাকা আবাহনী, শিরোপধারী শেখ জামালকে টপকে এবারের লিগের বিস্ময় সৃষ্টিকারী দল রহমতগঞ্জ চলে গেল সবার ওপরে।

রহমতগঞ্জ প্রথম থেকেই আক্রমণাত্মক মেজাজে খেলছিল আর এর ফলশ্রুতিতে সপ্তম মিনিটে এগিয়ে যায় পুরনো ঢাকার দলটি। বাম প্রান্ত দিয়ে দ্রুতগতিতে ব্রাদার্স রক্ষণভাগ ভেদ করেন উইঙ্গার সোহেল মিয়া, তার কাট ব্যাক এসে পড়ে ছোট বক্সের ভেতরে। সোহেলের উদ্দেশ্য ছিল কঙ্গেলিজ ফরোয়ার্ড সিয়ো জুনাপিয়ো, কিন্তু ব্রাদার্সের ডিফেন্ডার কৃষ্ণপদ তাড়াহুড়ো করতে গিয়ে বল পাঠিয়ে দেন নিজের জালে। আত্মঘাতী গোল দিয়ে অগ্রগামীতা নেয় রহমতগঞ্জ।

তবে রহমতগঞ্জের আনন্দ বেশিক্ষণ স্থায়ী হয়নি। ২৩ মিনিটে সমতা আনে ব্রাদার্স। বক্সের ওপরে থেকে নেয়া বাঁকানো এক ফ্রি-কিকে সমতসূচক গোলটি করেন ব্রাদার্সের হাইতিয়ান ফরোয়ার্ড অগাস্টিন ওয়ালসন।

আর এর পাঁচ মিনিট পর আঘাত হানেন ব্রাদার্সের নাইজেরিয়ান ফরোয়ার্ড এনকোচা কিংসলে। বক্সের মাঝে কিংসলের ফুটওয়ার্ক কেন বিপদজনক তার প্রমাণ দেখে রহমতগঞ্জ। দুজন ডিফেন্ডারের বাধা টপকে জোরালো শটে কিংসলে এগিয়ে দেন ব্রাদার্সকে।

তবে হাল ছাড়ার পাত্র নয় রহমতগঞ্জ। প্রথমার্ধের শেষ মিনিটে স্কোরলাইনে সমতা এনেই তারা বিরতিতে যায়। গাম্বিয়ান মিডফিল্ডার জাত্তা মোস্তাফার ফ্রি-কিকে হেড করে ব্রাদার্স গোলরক্ষক উত্তম বড়ুয়াকে পরাস্ত করেন নাইজেরিয়ান ডিফেন্ডার এলিটা বেনজামিন। আগুয়ান উত্তমের মাথার ওপর দিয়েই বল যায় জালে।

রহমতগঞ্জকে ৫৪ মিনিটে আবারও এগিয়ে দেন মিডিফিল্ডার দিদারুল আলম। সোহেল মিয়ার ক্রসে হেড করে দলের তৃতীয় গোল করেন তিনি। ৭৫ মিনিটে আবারও সমতা আনেন এনকোচা কিংসলে। বদলি খেলোয়াড় মোকাররমের পাস থেকে কোণাকুণি শটে গোল করে দলকে সমতার প্ল্যাটফর্মে নিয়ে আসেন কিংসলে।
তবে সব কিছু ওলটপালট করে দেন দিদারুল আলম। ম্যাচের যখন চলছে চার মিনিট ইনজুরি টাইম তখন বামপ্রান্ত থেকে বাম পায়ের চমৎকার এক বাঁকানো শটে দূরের জালে বল জড়িয়ে দেন তরুণ এই মিডফিল্ডার। বাঁধভাঙা আনন্দের জোয়ারে ভাসে রহমতগঞ্জ।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :