সন্ধ্যা ৬:৪৮, মঙ্গলবার, ২৬শে সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ইং
/ ক্রিকেট / শেষ চারে সাকিবের তালাওয়াহস
শেষ চারে সাকিবের তালাওয়াহস
জুলাই ২১, ২০১৬

১৮তম ওভারে ম্যাচে প্রথমবারেরমত বোলিং করতে আসলেন ক্রিস গেইল। ওভারের ৪র্থ বলেই গেইলকে উড়িয়ে মারলেন রবি রামপাল। ডিপ মিডউইকেটে ওঠা ক্যাচটি ধরলেন সাকিব আল হাসান। গেইলের বলে আউট রামপাল; কিন্তু কী আশ্চর্য! সেই গেইলই কি না উইকেট পাওয়ার আনন্দে লাফিয়ে উঠলেন রামপালের ঘাড়ে!

মূলতঃ ম্যাচটা শেষ হলো তখনই। ১৯৫ রানের জবাবে ১৬৯ রানে অলআউট বার্বাডোজ। ৩৬ রানে জিতে গেলো গেইলের জ্যামাইকা তালাওয়াহস। একই সঙ্গে শেষ চারও নিশ্চিত হয়ে গেলো জ্যামাইকার। সেই আনন্দেই কি না সিপিএলে শত্রু হলেও, জাতীয় দলের সাবেক সতীর্থ রবি রামপালের ঘাড়ে উঠে পড়লেন গেইল।

আগের তিনটিতে টানা জিতে এমনিতেই শীর্ষে ছিল সাকিব আল হাসান-ক্রিস গেইলের দল জ্যামাইকা তালাওয়াহস। এবার বার্বাডোজ ট্রাইডেন্টসকে হারিয়ে ফাইনাল নিশ্চিত করে ফেললো জ্যামাইকা।

চাডউইক ওয়ালটন আর কুমার সাঙ্গাকারার ব্যাটে ভর করে বার্বাডোজের সামনে ১৯৫ রানের চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দেয় জ্যামাইকা। জয়ের জন্য ১৯৬ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে ডেল স্টেইনের বোলিং তোপের মুখে পড়ে বার্বাডোজ। ১৭.৪ ওভারে ১৫৯ রানে অলআউট হয়ে যায় কিয়েরণ পোলার্ডের দল। ডেল স্টেইন ২৭ রানে নেন ৪ উইকেট। মিটরি অ্যালেন নেন ২ উইকেট। সাকিব আল হাসানকে বলই করতে দেয়া হয়নি আজ।

বার্বাডোজ ট্রাইডেন্টসের পক্ষে সর্বোচ্চ ৫১ রান করেন নিকোলাস পুরান। সাকিব আল হাসানের দারুণ ফিল্ডিংয়ে তিনি হয়ে যান রানআউট। এছাড়া বাকিদের মধ্যে সর্বোচ্চ ১৬ রান করেন পোলার্ড। ১৫ রান করেন আহমেদ শেহজাদ।

এর আগে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে চাডউইক ওয়ালটনের ৫৪ বলে ৯৭, সাঙ্গাকারার ৩১ বলে ৫০ এবং রোভামান পাওয়েলের ১৪ বলে ৩৪ রানের ওপর ভর করে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৯৫ রান সংগ্রহ করে জ্যামাইকা।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :