রাত ৮:২৯, রবিবার, ২৮শে মে, ২০১৭ ইং
/ ক্রিকেট / দ্বিতীয় দিন শেষে পিছিয়ে ইংল্যান্ড
দ্বিতীয় দিন শেষে পিছিয়ে ইংল্যান্ড
জুলাই ১৬, ২০১৬

ইয়াসির শাহের স্পিন ঘূর্ণিতে সফরকারী পাকিস্তান থেকে ৮৬ রানে পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয় দিন শেষ করেছে স্বাগতিক ইংল্যান্ড। পাকিস্তানের প্রথম ইনিংসে করা ৩৩৯ রানের জবাবে নিজেদের প্রথম ইনিংসে স্বাগতিকরা ৭ উইকেট হারিয়ে ২৫৩ রান তুলে দ্বিতীয় দিন শেষ করেছে। ইংলিশদের হাতে আছে আরও ৩টি উইকেট।

প্রথম দিন স্কোরবোর্ডে ৬ উইকেটে ২৮২ রান করা পাকিস্তান দ্বিতীয় দিনে স্কোরবোর্ডে মাত্র ৫৭ রান যোগ করতেই তারা শেষ চার উইকেট হারায়। ৩৩৯ রানে গুটিয়ে যায় মিসবাহ উল হকদের ইনিংস। লর্ডসে সেঞ্চুরির স্বাদ পাওয়া মিসবাহ ১১৪ রানে আউট হন। বল হাতে ইংলিশদের হয়ে একাই ৬ উইকেট তুলে নেন ক্রিস ওয়াকস। ৩টি উইকেট নেন স্টুয়ার্ড ব্রড। অপর উইকেটটি নেন জ্যাক বল।

প্রথম ইনিংসে পাকিস্তানের ৩৩৯ রানের জবাবে ইংল্যান্ডের শুরুটা খুব বেশি ভালো হয়নি। রাহাত আলির দারুণ এক ডেলিভারিতে ব্যক্তিগত ৬ রান করে সাজঘরে ফেরেন অ্যালেক্স হেলস। দ্বিতীয় উইকেটে ১১০ রানের জুটি গড়েন অ্যালেস্টার কুক ও জো রুট। ১০ চারে মাত্র ৬০ বলে অর্ধশতক স্পর্শ করেন কুক। এই ইনিংসের পথেই সুনিল গাভাস্কারকে (৯ হাজার ৬০৭) ছাড়িয়ে হয়ে যান টেস্ট ইতিহাসের সফলতম ওপেনার।

তিন নম্বরে প্রমোশন পাওয়া রুটও এগিয়ে যাচ্ছিলেন অর্ধশতকের দিকে। হঠাৎই বিপত্তি। ইয়াসিরকে স্লগ সুইপ করতে গিয়ে উইকেট উপহার দিয়ে আসেন ইংল্যান্ডের অন্যতম ভরসা (৪৮)।

এরপর আর গড়ে ওঠেনি বড় কোনো জুটি। এক পাশে কুক টিকে ছিলেন, আরেক পাশে ছিল বাকিদের আসা যাওয়া। ১৬ রানে সাজঘরে ফেরেন জেমস ভিঞ্চ। ৬ রান করে দ্রুত বিদায় নেন গ্যারি ব্যালান্স। জনি বেয়ারস্টো ২৯ আর মঈন আলি ২৩ রান করে আউট হন।

কুকের প্রতিরোধ ভেঙেছেন মোহাম্মদ আমির। ৬ বছর পর লাল বল হাতে নেওয়া আমির শুরুর দিকে ছিলেন বিবর্ণ। তৃতীয় স্পেলে পান উইকেটের দেখা। বাইরের বল স্টাম্পে টেনে আনেন কুক (৮১)। ক্রিস ওকস ৩১ আর ব্রড ১১ রানে অপরাজিত রয়েছেন। পাকিস্তানি স্পিনার ইয়াসির শাহ একাই ৫টি উইকেট দখল করেছেন। এছাড়া একটি করে উইকেট পান আমির ও রাহাত আলি।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :