রাত ৩:২৭, শুক্রবার, ২১শে সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ইং
/ আর্ন্তজাতিক / পিকের গোলে চ্যাম্পিয়ন স্পেনের শুভ সূচনা
পিকের গোলে চ্যাম্পিয়ন স্পেনের শুভ সূচনা
জুন ১৩, ২০১৬

ইনিয়েস্তার পায়ে বল। ঘড়ির কাঁটায় তখন ৮৭ মিনিট। ডি বক্সের বাইরে থেকে দুর্দান্ত এক ক্রসে মাথা ছুঁয়ে যেন স্পেনকে লজ্জার হাত থেকেই বাঁচালেন সমালোচিত পিকে। এর আগেও বহুবার এমন করেই তার ক্লাব বার্সাকে বাঁচিয়েছেন। এবার দলের হয়ে শেষ সময়ে গোল করে দলের প্রাণ ফিরিয়ে দিলেন। ইউরোর প্রথম ম্যাচে পিকের দেওয়া শেষ সময়ের গোলে চেক রিপাবলিককে হারিয়ে শুভ সূচনা করলো বর্তমান চ্যাম্পিয়ন স্পেন।

হ্যাটট্রিক শিরোপা জয়ের স্বপ্নে ফ্রান্সের মাটিতে পা দিয়েছিল দেল বস্ক শীষ্যরা। ক্যাসিয়াসকে একাদশের বাইরে রেখে নারী সম্পর্কিত সমালোচনায় জর্জরিত ডে গিয়াকে নিয়ে একাদশ সাজান দেল বস্ক। ম্যাচের শুরু থেকেই আক্রমণের পসরা সাজিয়ে বসে স্পেন।

১৫ মিনিটেই সিলভার ক্রস থেকে মোরাতা শট করলে রুখে দেন চেক। এদিন যেন নিজের সেরাটা দিতেই মাঠে নেমেছিলেন চেক। ২৯ মিনিটে আবারো সেই মোরাতা গোলের সুযোগ নষ্ট করেন। গোলবারের সামান্য বাইরে দিয়ে শট করলে গোল বঞ্চিত হয় স্পেন। ৩৯ মিনিটে আবারো চেক রিপাবলিকের ত্রাণকর্তা হিসেবে আবির্ভাব হয় চেকের। মোরাতার আরো একোটি দূরপাল্লার শট রুখে দেন এই আর্সেনাল গোলকিপার। প্রথমার্ধের শেষ সময়ে চেক রিপাবলিক ফুটবলারের করা একমাত্র শটটি রুখে দেন ডে গিয়া।

বিরতি থেকে ফিরে গোলের জন্য আরো মরিয়া হয়ে পরে স্পেন। স্পেনের পজিশন নির্ভর ফুটবলের বিপরীতে ৫৭ মিনিটে অসাধারণ একোটি সুযোগ পায় চেক রিপাবলিক। কিন্তু ক্রেজেসির শট রুখে দেন ডে গিয়া। ৬৪ মিনিটে একদম গোলমুখের সামনে থেকে বল ক্লিয়ার করে দলকে ম্যাচে টিকিয়ে রাখেন সেস ফ্যাব্রিগাস। ম্যাচ যখন ড্রয়ের দিকে যাচ্ছিল ঠিক তখনই ৮৭ মিনিটে হেডে গোল করে দলকে উল্লাসে মাতিয়ে তোলেন বার্সা ডিফেন্ডার জেরার্ড পিকে। এই জয়ে গ্রুপ ‘ডি’ তে ক্রোয়েশিয়ার সঙ্গে যৌথভাবে শীর্ষে অবস্থান করছে স্পেন।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :