সকাল ১০:৫৩, মঙ্গলবার, ২৫শে জুলাই, ২০১৭ ইং
/ ক্রিকেট / কুম্বলেই কোচ : যদি কোহলি মেনে নেন
কুম্বলেই কোচ : যদি কোহলি মেনে নেন
জুন ২২, ২০১৬

ভারতীয় ক্রিকেট দলের কোচ হিসেবে তাহলে ঘোষণা হতে যাচ্ছে অনিল কুম্বলের নাম! আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ব্যতিক্রম কিছু না ঘটে গেলে এটাই হয়তো সত্যি হবে। তবে তার আগে একজন মাত্র ব্যাক্তির ওপর ঝুলে আছে এখন পুরো বিষয়টা। তিনি বিরাট কোহলি। ভারতীয় টেস্ট দলের অধিনায়ক। কোচ নিয়োগের জন্য শচীন টেন্ডুলকার, সৌরভ গাঙ্গুলি এবং ভিভিএস লক্ষ্মণকে নিয়ে যে বিশেষজ্ঞ কমিটি গঠন করা হয়েছে- তারা মোটামুটি কুম্বলে সম্পর্কে একমত। এখন বিরাট কোহলির কাছ থেকে ‘হ্যাঁ’ শোনা গেলেই কেবল আনুষ্ঠানিকভাবে কোচ হিসেবে অনিল কুম্বলের নাম ঘোষণা হয়ে যাবে।

ভারতীয় ক্রিকেট দলের জন্য বিজ্ঞাপন প্রকাশ হওয়ার পরপরই বেশ সাড়া পড়ে গিয়েছিল। মোট ৫৭জন এই পদের জন্য আবেদন করেন। এর মধ্যে প্রাথমিকভাবে ২১জনকে নির্বাচন করেছিল বিসিসিআইর বাছাই কমিটি। এই ২১জনকেই তুলে দেয়া হয়েছিল সাবেক তিন গ্রেট ক্রিকেটারকে নিয়ে গড়া বিশেষজ্ঞ কমিটির হাতে। তারা টানা দু’দিন সাক্ষাৎকার নেন আগ্রহীদের।

বাছাইকৃত ২১জনের মধ্যে ছিলেন বেশ কয়েকজন নামকরা বিদেশিও। টম মুডি, অ্যান্ডি মোলস এবং ট্রেভর পেনিরমত নামি দামি কোচরা। তবে শচীন-সৌরভ-লক্ষ্মণরা আপাতত ‘রা’ বিদেশি নীতিতেই হাঁটছেন। এ কারণে বিদেশি কোচরা স্কাইপের মাধ্যমে ইন্টারভিউ দিলেও তাতে তাদের ভাগ্যেল সিকে ছিঁড়ছে না, এটা নিশ্চিত। দেশি কোচের পথেই হাঁটছেন ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডও।

ফলে দেশি কোচদের মধ্যে লড়াইটা তুমুল আকারে ছিল রবি শাস্ত্রি এবং অনিল কুম্বলের মধ্যে। গত ওয়ানডে বিশ্বকাপের পর থেকে ধোনিদের টিম ডিরেক্টর (যদিও টিম ডিরেক্টর আগে থেকে ছিলেন) কাম কোচ হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন রবি শাস্ত্রি। অপরদিকে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সাড়ে নয়শ’র ওপর উইকেট নেয়া অনিল কুম্বলে ছিলেন তার শক্ত প্রতিদ্বন্দ্বী।

শচীন-সৌরভ-লক্ষ্মণদের কাছে অবশ্য কুম্বলেই পছন্দের তালিকায় আগে থেকে এগিয়েছিলেন। জানা গেছে, ইন্টারভিউর পর সেই পছন্দটা আরও জোরালো হয়েছে। এক কথায় বাছাই কমিটি এখন প্রায় পুরোপুরি একমত অনিল কুম্বলের ব্যাপারে; কিন্তু সমস্যাটা বিরাট কোহলিকে নিয়ে। তার সঙ্গে ইতিমধ্যেই রবি শাস্ত্রি দহররম-মহররম সম্পর্ক গড়ে তুলেছেন। ব্যক্তিগত সম্পর্কের রেশ ধরে তিনি যদি শাস্ত্রিকেই চেয়ে বসেন, তাহলে বিপাকে পড়ে যাবেন শচীন-সৌরভ-লক্ষ্মণরা। সবারই আলোচনার বিষয় এখন, কোচ নিয়োগে এতবড় ব্যক্তিগত ঝুঁকি কি নেবেন কোহলি!



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :