রাত ৯:২৫, রবিবার, ২০শে আগস্ট, ২০১৭ ইং
/ ক্রিকেট / বৃষ্টিবিঘ্নিত ম্যাচে রূপগঞ্জের জয়
বৃষ্টিবিঘ্নিত ম্যাচে রূপগঞ্জের জয়
মে ৬, ২০১৬

বিকেএসপির তিন নম্বর মাঠে অনুষ্ঠিত হয়েছে লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ ও কলাবাগান ক্রিকেট একাডেমির মধ্যকার ম্যাচ। বৃষ্টি বিঘ্নিত এই ম্যাচটিতে ডাকওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে ২৯ রানের জয় পেয়েছে লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ।
শুক্রবার টস হেরে প্রথমে ব্যাটিং করতে নামে রূপগঞ্জ। ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুতেই চাপে পড়ে তারা। দলীয় ৮৫ রানে সেরা পাঁচ ব্যাটসম্যানকে হারায় দলটি। তবে ষষ্ঠ উইকেট জুটিতে দলের হাল ধরেন আসিফ আহমেদ ও সাজ্জাদুল হক। ১১৩ রানের দারুণ এক জুটি গড়ে দলকে সম্মানজনক স্কোর করতে সাহায্য করেন এ দুই ব্যাটসম্যান।
এরপর আর কোনও ব্যাটসম্যান বড় রান করতে না পারায় ৯ উইকেটে ২৩৯ রানে থামে তাদের ইনিংস। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৮২ রান করেন আসিফ। ১০৬ বলে ৮টি চার ও ২টি ছক্কার সাহায্যে এ রান করেন তিনি। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৭০ রান করেন সাজ্জাদুল। ৭৮ বলে ৪টি চার ও ৩টি ছক্কার সাহায্যে এ রান করেন তিনি। এছাড়া মোহাম্মদ মিঠুন ২৭ ও সৌম্য সরকার ২১ রান করেন।
কলাবাগানের পক্ষে আবু জায়েদ ৫০ রানে ৪টি উইকেট পান। এছাড়া মেহেদী হাসান মিরাজ ও রিফাত প্রধান ২টি উইকেট নিয়েছেন।
রূপগঞ্জের ইনিংস শেষ হতেই বৃষ্টি হানা দেয় বিকেএসপির আকাশে। বৃষ্টি থামার পর কলাবাগান ক্রিকেট একাডেমির জন্য নতুন লক্ষ্য নির্ধারণ হয় ২৫ ওভারে ১৭১ রান। সেই লক্ষ্যে খেলতে নেমে নিয়মিত বিরতিতে একের পর এক উইকেট হারাতে থাকে কলাবাগান ক্রিকেট একাডেমি।
দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৩৬ রানের ইনিংস খেলেন তাপস ঘোষ। এছাড়া বিশ্বনাথ হালদার ৩২ রানে অপরাজিত থাকেন। এই দুইজন অষ্টম উইকেটে ৫৬ রানের জুটি গড়েন। তবে এই জুটি জয়ের জন্য যথেষ্ট ছিল না কলাবাগান ক্রিকেট একাডেমির জন্য। শেষ পর্যন্ত কলাবাগান নির্ধারিত ২৫ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৪১ রান করতে সমর্থ হন।
রূপগঞ্জের বোলারদের মধ্যে মোশারফ হোসেন ও নাহিদুল ইসলাম দুটি করে উইকেট নিয়েছেন। এছাড়া আসিফ আহমেদ, আলাউদ্দিন বাবু ও তাইজুল ইসলাম একটি করে উইকেট নিয়েছেন।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :