রাত ১২:০৮, মঙ্গলবার, ২৭শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ইং
/ আর্ন্তজাতিক / সুয়ারেজের হ্যাটট্রিক, পিছিয়ে নেই মেসি-নেইমারও
সুয়ারেজের হ্যাটট্রিক, পিছিয়ে নেই মেসি-নেইমারও
ফেব্রুয়ারি ১৫, ২০১৬

লা লিগায় সেল্টা ভিগোর বিপক্ষে বিশাল ব্যবধানে জয় পেয়েছে কাতালান ক্লাব বার্সেলোনা। তারা ৬-১ গোলে সেল্টা ভিগোকে উড়িয়ে দিয়ে জয় ছিনিয়ে নিয়েছে। যেখানে প্রথম পর্বের ম্যাচে গত সেপ্টেম্বরে ৪-১ গোলে জয় পেয়েছিল সেল্টা ভিগো। এবারের জয়ে সেই ক্ষতিটা যেন পুষিয়ে নিল বার্সেলোনা। এই জয়ের সাথে টানা ৩০ ম্যাচে জয়ের ধারাও অব্যাহত রেখেছে বার্সেলোনা।

রবিবার রাতে ক্যাম্প ন্যুতে স্বাগতিকরা মুখোমুখি হয়েছিল সেল্টা ভিগোর। বার্সেলোনা ৬-১ গোলে পরাজিত করেছে সফরকারীদের। ‘এমএসএন’ খ্যাত তিন মহারথী ঝড়েই বার্সেলোনা বড় জয় পেয়েছে।

ম্যাচের শুরুতে তেমন একটা সুবিধা করতে পারেননি লুইস এনরিকের দল। আক্রমণ করলেও গোলগুলো যেন ফসকেই যাচ্ছিল। মেসি-নেইমার কয়েকবার জালে বল জড়ানোর চেষ্টা করেও ব্যর্থ হন। তবে পরে মেসির ফ্রি কিক থেকেই দলের প্রথম গোলের সূচনা হয়। ফ্রি কিক থেকে বাঁকানো শটের অসাধারণ একটি গোল করেন মেসি। তবে সেল্টা ভিগোও প্রথমার্ধেই সমতা ফিরাতে সক্ষম হয় খেলায়। ডি বক্সে সেল্টা ভিগোর স্ট্রাইকার জন গুইদেত্তিকে ফাউল করেন বার্সেলোনার ডিফেন্ডার জর্দি আলবা। এত পেনাল্টি পায় সফরকারীরা। আর এই সুযোগটি নিজেই কাজে লাগান জন গুইদেত্তি। সুইডিশ স্ট্রাইকার জন গুইদেত্তির পেনাল্টি থেকে করা গোলে সমতায় ফিরে দল। প্রথমার্ধে ১-১ ব্যবধানে বিরতিতে যায় স্বাগতিকরা।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেও দুটি সুযোগ হাতছাড়া করেন স্বাগতিকরা। তবে তাদের আক্রমণ অব্যাহত থাকে। আর ৫৯ মিনিটে মেসির পাস থেকে বল নিয়ে নিজের প্রথম এবং দলের দ্বিতীয় গোলটি করেন সুয়ারেজ। ১৬ মিনিট পরে নিজের দ্বিতীয় গোল করেন তিনি। এবার তার গোলে পূর্ণ অবদান রেখেছেন নেইমার। এই গোলে বার্সার জয় প্রায় নিশ্চিত হয়ে যায়। এরপর নিজেদের ফাঁদে নিজেরাই পড়েছে সেল্টা ভিগো। ডি বক্সে মেসিকে ফাউল করে পেনাল্টির সুযোগ করে দেয় অতিথিরা। মেসি পেনাল্টি থেকে গোলটি করতে এসে সরাসরি বলটি জালে না দিয়ে আলতোভাবে বাড়িয়ে দেন সুয়ারেজকে। ফলে সুয়ারেজ তার তৃতীয় গোলটি পূর্ণ করে হ্যাটট্রিকের আনন্দ উদযাপন করেন। আর ঠিক তিন মিনিটি পরেই সুয়ারেজের পাস থেকে গোল করেন ইভান রাকিতিচ। নেইমারও বাদ যায়নি এদিন। খেলা শেষ হবার আগ মুহূর্তে দলের শেষ গোলটি করেন নেইমার। খেলা শেষে ৬-১ ব্যবধানের বড় জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে স্বাগতিকরা।

এই ম্যাচে জয়ের ফলে ২৩ ম্যাচে ৫৭ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষস্থান এখনও অটুট আছে বার্সেলোনার। আর তাদের থেকে এক ম্যাচ বেশি খেলে ৫৪ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে আছে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ এবং ৫৩ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয় স্থানে আছে রিয়াল মাদ্রিদ।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :