রাত ১২:৪৯, মঙ্গলবার, ২৯শে মে, ২০১৭ ইং
/ অনূর্ধ্ব ১৯ বিশ্বকাপ / ম্যাচ সেরার পুরস্কার মিরাজের হাতে
ম্যাচ সেরার পুরস্কার মিরাজের হাতে
ফেব্রুয়ারি ৫, ২০১৬

সাকিব-মাশরাফি কিংবা মুশফিকুর রহিমরাও একের পর এক শুভেচ্ছা বার্তা পাঠাচ্ছিলেন। বুকে সাহস রেখে এগিয়ে যাওয়ার কথা বলছিলেন। যুব দলের অধিনায়ক মেহেদী হাসান মিরাজকে বিশ্বকাপের অনুশীলণ চলাকালেই মাশরাফি টিপস দিয়েছিলেন, কিভাবে চাপের মুখে মাথা ঠাণ্ডা রেখে ম্যাচ বের করে আনতে হয়। কোয়ার্টার ফাইনালে নেপালের বিপক্ষে লড়াইয়ে সব আশীর্বাদই যেন এক করে ফেললেন মেহেদী হাসান মিরাজ। সবচেয়ে বড় কথা, আরও একবার প্রমান দিলেন তার নিজের যোগ্যতার। বিশ্বকে দেখিয়ে দিলেন, দেখ! কত বড় ম্যাচ উইনার।

নেপালের বিপক্ষে বল হাতে খুব একটা সুবিধা করতে পারেননি। ১টা উইকেট নিতে দিয়েছেন ৫১ রান। তবে একটা রানআউটে দারুন ভুমিকা রেখেছিলেন। এরপর ২১২ রানের মামুলি লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে যখন প্রথমে বিপদে পড়ে গিয়েছিল বাংলাদেশের যুবারা, তখন উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান জাকির হাসানকে নিয়ে বাংলাদেশের হাল ধরেন মিরাজ। ১১৭ রানের অপারাজিত জুটি গড়ে প্রথমবারেরমত কোন বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে তুলে দিল বাংলাদেশকে। জাকির হাসান ৭৭ বলে ৭৫ রান সংগ্রহ করেন। তিনিই সর্বোচ্চ রান সংগ্রহকারী। নিশ্চিতভাবেই বাংলাদেশের জয়ে সবচেয়ে বড় অবধান তার।

কিন্তু শেষ পর্যন্ত জুরি বোর্ড মেহেদী হাসান মিরাজকেই বেছে নিল ম্যাচ সেরার পুরস্কারের জন্য। কারণ, ৬৫ বলে ৫৫ রানের জন্যই নয় শুধু, ম্যাচের শুরু থেকে তার অসাধারণ নেতৃত্ব, বোলিং এবং ফিল্ডিং, সব কারণেই তাকে সেরা হিসেবে বাছাই করতে কোনই বেগ পেতে হয়নি বিচারকদের। সুতরাং, বাংলাদেশের স্বপ্ন পূরণের ম্যাচে সেরার পুরস্কার জিতলেন অধিনায়কই। সেরা অধিনায়ক বুঝি একেই বলে!



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :