বিকাল ৪:৫৭, বুধবার, ২২শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ইং
/ এসএ গেমস / ব্রোঞ্জে শুরু সিলভারে শেষ
ব্রোঞ্জে শুরু সিলভারে শেষ
ফেব্রুয়ারি ৬, ২০১৬

কবিরুল ইসলাম, গোহাটি থেকে : এসএ গেমসের পদক লড়াইয়ে প্রথম দিনটা ব্রোঞ্জ পদক জয়ের মাধ্যমে শুরু করেছিল বাংলাদেশ। আর দিনের শেষটা হয়েছে রৌপ্য পদক জয়ের মাধ্যমে। ভারোত্তোলক মোল্লা সাবিরার হাত ধরে আসে দিনের প্রথম পদকটি। তিনি ৪৮টি কেজি ওজন শ্রেনীতে দেশকে ব্রোঞ্জ পদক এনে দেন। দিনের শেষে রৌপ্য পদক জয় করে দেশের মানুষের মুখে হাসি ফুঁটিয়ে তুলেন কুস্তিগির রীনা আক্তার। প্রথম দিনে ১৯টি স্বর্ণ পদকের জন্য মাঠে নেমেছিলেন অ্যাথলেটরা। বাংলাদেশ কোন স্বর্ণ পদক জিততে না পারলেও একটি রৌপ্যসহ ৯টি ব্রোঞ্জ পদক জয় করেছে। পদক তালিকায় চতুর্থ স্থানটি বাংলাদেশের। ১৪টি স্বর্ণ, চারটি রৌপ্য পদক নিয়ে তালিকার শীর্ষ স্থানটি স্বাগতিক ভারতের দখলে। দ্বিতীয় স্থানে আছে শ্রীলংকা। তাদের অ্যাথলেটরা জয় করেছে চারটি স্বর্ণ, দশটি রৌপ্য ও সাতটি ব্রোঞ্জ পদক। পাকিস্তান এক স্বর্ণ পদক জয়ের সঙ্গে দুই রৌপ্য ও সমান ব্রোঞ্জ পদক নিয়ে তালিকার তৃতীয় স্থানে নিজেদের জায়গা করে নিয়েছে। বাংলাদেশের পরেই আছে নেপাল। তারা একটি রৌপ্য ও দুই ব্রোঞ্জ জয় করেছে। আফগানদের দখলে আছে একটি মাত্র ব্রোঞ্জ পদক। মালদ্বীপ ও ভুটান প্রথম দিনে কোন পদকের দেখা পায়নি।
কুস্তিতে সিলভার জয় রীনার
দক্ষিণ এশিয়ার অলিম্পিক খ্যাত এসএ গেমসে এবারই প্রথম মেয়েদের কুস্তি ইভেন্টটি যুক্ত করা হয়। প্রথমবার দেশকে প্রতিনিধিত্ব করার সুযোগ পেয়েই বাজিমাত করেছেন রীনা আক্তার। ৬০ কেজি ওজন শ্রেনীতে রৌপ্য পদক জয় করেন। এছাড়াও কুস্তিতে আরও দু’টি ব্রোঞ্জ পদক পেয়েছে বাংলাদেশ। ৫৫ কেজি ওজন শ্রেনীতে সোমা চৌধুরী আর ৪৮ কেজি ওজন শ্রেনীতে নদী চাকমার হাত ধরেই এ দু’টি পদক আসে। তবে পাকিস্তান এ ইভেন্টে নিজেদের নাম অন্তর্ভুক্ত না করাতেই বাংলাদেশের সিঁকে ছিঁড়েছে!
পুলে ব্যর্থ সাঁতারুরা
প্রথমদিনই পুলে ঝড় তুলেছেন স্বাগতিক ভারত ও শ্রীলঙ্কার সাঁতারুরা। শনিবার সাঁতারে আট পদকের লড়াই হয়েছে। ড. জাকির হোসেন অ্যাকোয়াটিক কমপেক্সে পুলে তেমন ঝড় তুলতে পারেননি বাংলাদেশ। অনেকেই নিজের ও দেশের সেরা টাইমিং করেছেন কিন্তু এরপরেও পদক মেলেনি অনেকক্ষেত্রে। উচ্চতর প্রশিক্ষণ নেয়া নাজমা আক্তার একেবারেই হতাশ করেছেন। মহিলাদের ২০০ মিটার ফ্রি স্টাইলে নাজমা খাতুন আট জনের মধ্যে অষ্টম হয়েছেন। ২০০ মিটার ব্রেস্টস্ট্রোকে রোমানা আক্তারের পারফরম্যান্স অবশ্য বেশ প্রশংসনীয়। ২.৪৯.৬০ টাইমিংয়ে ব্রোঞ্জ জিতেছেন রোমানা। জাতীয় সাঁতারে ও হিটে এর চেয়ে বেশি টাইমিং ছিল রোমানার। এই ইভেন্টে রৌপ্য পদকধারীর টাইমিং ২.৪৯.১৭। ২০০ মিটার ব্রেস্টস্ট্রোকে ভারতের সন্দীপ সাজওয়ালের রাজত্ব অব্যাহত রয়েছে। তাকে প্রতিদ্বন্দ্বী জানানোর মতো ছিলেন না কেউই। এই ইভেন্টে বাংলাদেশের শরিফুল ইসলাম ২.২৬.৯৯ টাইমিং করে ব্রোঞ্জ জিতেছেন। শরিফুলের ছোট ভাই আরিফুল ইসলাম পরীক্ষার কারণে আসতে পারেননি। আরিফুলের অনুপস্থিতি পুলে বেশ অনুভূত হলো। গত কয়েক বছর আন্তর্জাতিক অঙ্গনে বাংলাদেশের সাঁতারের অন্যতম প্রতিনিধি মাহফুজুর রহমান সাগর। সাফেও তিনি প্রথম প্রতিনিধি। পুলে বাংলাদেশের প্রথম পদক এসেছে তার মাধ্যমেই। ২০০ মিটার ফ্রি স্টাইলে সাগর ১.৫৬.১৯ টাইমিংয়ে ব্রোঞ্জ জিতেন। রৌপ্য জয়ী সাউরাবের টাইমিং ১.৫৩.০৩। ৪০০ মিটার রিলেতে বাংলাদেশ ব্রোঞ্জ পদক অব্যাহত রেখেছে। শ্রীলংকা সাঁতারের মাধ্যমে পদক উপরে উঠে এসেছে। চার স্বর্ণ নিয়ে মোট ২১ পদক নিয়ে শ্রীলংকা দ্বিতীয় স্থানে। ১৪ স্বর্ণ, ৫ রৌপ্য মোট ১৯ পদক নিয়ে ভারত প্রথম। বাংলাদেশ ১ রৌপ্য ও আট ব্রোঞ্জ নিয়ে চতুর্থ স্থানে।
সাইকিংয়ে হতাশার একদিন
সাইকিংয়ে হতাশার একটি দিন অতিবাহিত করেছে বাংলাদেশ। ৩০ কিলোমিটার মহিলা সাইকিংয়ে বাংলাদেশের সুবর্ণা বর্মা ১২ জনের মধ্যে পঞ্চম এবং ৪০ কিলোমিটার পুরুষ সাইকিং ইভেন্টে ১০ জনের মধ্যে বাংলাদেশের রিপন কুমার বিশ্বাস সপ্তম হন। সাইকিংয়ে এতোটা বাজে ফলাফল হয়তো কেউ কল্পনাও করেননি।
ব্যাডমিন্টনে শুভ যাত্রা
সাইকিংয়ে হতাশার দিন পাড়ি দিলেও ব্যাডমিন্টনের যাত্রা শুভ হয়েছে সাটলারদের। শনিবার শিলংয়ে শুরু হওয়া এ ইভেন্টের পুরুষ ‘এ’ গ্রুপের খেলায় বাংলাদেশ দলের খালেদ, পরশ ও এনামুল হক ৩-০ সেটে হারিয়েছে আফগানিস্তানের সাটলারদের।
টেবিল টেনিসে মহিলাদের সফলতা
শিলংয়ে টেবিল টেনিস ডিসিপ্লিনে পুরুষ দল বাংলাদেশকে হতাশ করলেও মহিলা দল আশার আলো জ্বেলেছেন। পুরুষরা হেরে গেলেও প্রথম রাউন্ডে শ্রীলংকাকে ৩-০ সেটে হারিয়েছেন বাংলাদেশের মেয়েরা। মৌমিতা শ্রীলংকার রুভিনি কান্নানগুরাকে, রহিমা আক্তার পরাস্ত করেছেন ইসহারাকে আর মিনারা শারমীন জয় পেয়েছেন ইরামডোর বিরুদ্ধে।
খো খোতে জয়
খো খো ইভেন্টের পুরুষ ও মহিলা বিভাগে জয় পেয়েছে বাংলাদেশ। শ্রীলঙ্কাকে ১৯-৬ পয়েন্টে হারিয়েছে বাংলাদেশ পুরুষ দল। এদিন পাকিস্তানের সঙ্গে খেলা ছিল বাংলাদেশ দলের। কিন্তু পাকিস্তান খো খো দল নির্ধারিত সময়ে গোহাটিতে পৌঁছাতে না পারায় শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে মাঠে লড়াই করে লাল-সবুজরা। একই দিনে ময়দানি লড়াইয়ে জয় পেয়েছে বাংলাদেশ মহিলা দলও।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :