রাত ১১:৩০, বুধবার, ২৬শে এপ্রিল, ২০১৭ ইং
/ Special Post / বিপাকে পাকিস্তান, পঞ্চম ব্যাটসম্যানের বিদায়
বিপাকে পাকিস্তান, পঞ্চম ব্যাটসম্যানের বিদায়
ফেব্রুয়ারি ২৭, ২০১৬

টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে পাকিস্তানের টপঅর্ডারের পাঁচ ব্যাটসম্যান সাজঘরে ফিরেছেন। ৭.১ ওভার শেষে পাকিস্তান ৫ উইকেট হারিয়ে তুলেছে ৩৫ রান। এশিয়া কাপের চতুর্থ ম্যাচে মাঠে নামে ক্রিকেট বিশ্বে উন্মাদনা ছড়ানো দুই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারত-পাকিস্তান। উত্তেজনা, উৎকণ্ঠা আর উচ্ছ্বাসের এ ম্যাচে টস জিতে আগে বোলিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন টিম ইন্ডিয়ার দলপতি মহেন্দ্র সিং ধোনি। চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী এ দুটি দলের ম্যাচটি মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে সন্ধ্যা সাড়ে সাতটায় শুরু হয়।
পাকিস্তানের হয়ে ব্যাটিং উদ্বোধন করতে নামেন মোহাম্মদ হাফিজ ও শারজিল খান। ভারতের হয়ে বোলিং শুরু করেন আশিষ নেহারা। প্রথম ওভারের চতুর্থ বলেই হাফিজকে ফিরিয়ে দেন নেহারা। উইকেটের পেছনে থাকা ধোনির গ্লাভসবন্দি হয়ে ফেরেন ৪ রান করা হাফিজ। দলীয় ৪ রানের মাথায় মোহাম্মদ হাফিজ ফিরে গেলে শুরুতেই হোঁচট খায় পাকিস্তান। সেখান থেকে দলের রানের চাকা ঘোরাতে থাকেন শারজিল খান ও অভিষিক্ত খুররম মনজুর। তবে, ইনিংসের চতুর্থ ওভারে জাসপ্রিত বুমরাহ ফিরিয়ে দেন ৭ রান করা শারজিল খানকে। রাহানের হাতে ধরা পড়েন তিনি। খুররমের সঙ্গে জুটি গড়ে ১৮ রান যোগ করেন শারজিল।
ইনিংসের ষষ্ঠ ওভারের শেষ বলে রানআউট হয়ে ফেরেন ১৮ বলে ১০ রান করা খুররম মনজুর। সপ্তম ওভারে হারদিক পান্ডে ফেরান শোয়েব মালিককে। পাকিস্তান-ভারত সর্বশেষ লড়াইটিও হয়েছিল মিরপুরেই, ২০১৪ সালের মার্চে, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে। ১১ মাস পর সেই মিরপুরেই এশিয়া কাপ টি-টোয়েন্টিতে মুখোমুখি হচ্ছে চিরপ্রতিদ্বন্দী দল দুটি। তবে, গত বছর অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ডে অনুষ্ঠিত বিশ্বকাপে মুখোমুখি হয়েছিল দল দুটি।
টি-টোয়েন্টিতে ৬ বারের মুখোমুখিতে চার বারই জিতেছে ভারত। পাকিস্তান জিতেছে মাত্র একবার। টাই হয়েছে একটি ম্যাচ। মিরপুরে মুখোমুখি সর্বশেষ ম্যাচটিতে জিতেছিল ভারতই। বিশ্বকাপের ম্যাচটিতেও জয় তুলে নিয়েছিল টিম ইন্ডিয়া।
ভারত একাদশ: মহেন্দ্র সিং ধোনি, রবিচন্দ্রন অশ্বিন, জাসপ্রিত বুমরাহ, রবীন্দ্র জাদেজা, বিরাট কোহলি, আশিষ নেহারা, হারদিক পান্ডে, আজিঙ্কা রাহানে, সুরেশ রায়না, রোহিত শর্মা ও যুবরাজ সিং।
পাকিস্তান একাদশ: শহিদ আফ্রিদি, খুররম মনজুর, মোহাম্মদ আমির, মোহাম্মদ হাফিজ, মোহাম্মদ ইরফান, মোহাম্মদ সামি, শারজিল খান, সরফরাজ আহমেদ, শোয়েব মালিক, উমর আকমল ও ওয়াহাব রিয়াজ।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :