রাত ৩:১৪, মঙ্গলবার, ২২শে মে, ২০১৭ ইং
/ ক্রিকেট / ভারত-পাকিস্তানের সঙ্গে জিতেছে লঙ্কান-ইংলিশরা
ভারত-পাকিস্তানের সঙ্গে জিতেছে লঙ্কান-ইংলিশরা
জানুয়ারি ২৩, ২০১৬

বাংলাদেশে বসছে যুব বিশ্বকাপের একাদশতম আসর। আগামী ২৭ জানুয়ারি পর্দা উঠছে মূল আসরের। তবে প্রস্তুতি ম্যাচ শুরু হয়ে গেছে শুক্রবার (২২ জানুয়ারি) থেকেই। ১৬ দলের এ বিশ্ব আসরের ম্যাচগুলো গড়াবে ঢাকা, চট্টগ্রাম, সিলেট ও কক্সবাজার এই চার শহরের আট ভেন্যুতে।
শনিবার প্রস্তুতি ম্যাচে মাঠে নামে ১২টি দেশ। ৬টি ভিন্ন ম্যাচে জয় পেয়েছে স্বাগতিক বাংলাদেশ। জিম্বাবুয়েকে হারিয়েছে মেহেদি হাসান মিরাজের বাংলাদেশ। টাইগার যুবাদের জয়ের দিনে দিনের অপর ম্যাচগুলোতে জিতেছে ভারত, পাকিস্তান, আফগানিস্তান, ইংল্যান্ড আর শ্রীলঙ্কা।
বিকেএসপির তিন নম্বর মাঠে আয়ারল্যান্ডকে ১২৬ রানে হারায় আফগানরা। আগে ব্যাট করে আফগান যুবারা নির্ধারিত ৫০ ওভারে ২৭৭ রান তোলে। জবাবে ৪৪.৩ ওভারে অলআউট হওয়ার আগে আইরিশরা ১৫১ রান তুলতে সম হয়। আফগানদের হয়ে শতক হাঁকান দলপতি ইহসানুল্লাহ (১৩৩)।
দিনের সবচেয়ে বড় জয়টি পেয়েছে ভারতের যুবারা। বিকেএসপির চার নম্বর মাঠে কানাডাকে টিম ইন্ডিয়া হারিয়েছে ৩৭২ রানের বিশাল ব্যবধানে। আগে ব্যাট করে রাহুল দ্রাবিড়ের শিষ্যরা নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে তোলে ৪৮৫ রান। জবাবে ৩১.১ ওভার ব্যাট করে ১১৩ রানে গুটিয়ে যায় কানাডা।
ভারতের অনূর্ধ্ব-১৯ দলের হয়ে শতক হাঁকান দলপতি ইশান কিষান ও রিকি ভুই। ৮৬ বলে ১৬টি চার আর ৭টি ছক্কায় ১৩৮ রান করে রিটায়ার্ড আউট হন ইশান। আর ৭১ বলে ১০টি চারের সঙ্গে ৭টি ছক্কায় ১১৫ রান করে রিটায়ার্ড আউট হন রিকি ভুই।
এদিকে, চট্টগ্রামের এমএ আজিজ স্টেডিয়ামে ১৫৫ রানের জয় পেয়েছে ইংল্যান্ড অনূর্ধ্ব-১৯ দল। নামিবিয়ার বিপে আগে ব্যাটিং করে ৭ উইকেট হারানো ইংলিশরা ৩০৭ রান তোলে। জবাবে ৩৪ ওভারে অলআউট হওয়ার আগে নামিবিয়া ১৫২ রান তুলতেই গুটিয়ে যায়। ইংলিশদের দুই ওপেনার লরেন্স (৮৫) ও ম্যাক্স হোল্ডেন (৮১) উদ্বোধনী জুটিতে ১৫১ রান তোলেন। ইংলিশদের ১৫৫ রানের জয় পাইয়ে দিতে নামিবিয়ার ৫ ব্যাটসম্যানকে ফিরিয়ে দেন স্যাম কুরান।
বিকেএসপির মাঠে জয় পেয়েছে পাকিস্তানের যুবারা। নেপালকে তারা হারিয়েছে ১১০ রানের ব্যবধানে। আগে ব্যাট করে পাকিস্তান ৭ উইকেট হারিয়ে তোলে ২৯১ রান। জবাবে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৮১ রান তুলতে সম হয় নেপাল। পাকিস্তানের হয়ে ইনিংস সর্বোচ্চ ৮৩ রান করেন দলপতি ও ওপেনার জিসান মালিক। এছাড়া উইকেটরক ব্যাটসম্যান উমর মাসুদ ৫৯ রান করেন।
বিকেএসপির দুই নম্বর মাঠে নেমেছিল শ্রীলঙ্কা ও নিউজিল্যান্ড। লঙ্কানরা ৪ উইকেটে হারিয়ে দেয় কিউইদের। আগে ব্যাটিং করে নিউজিল্যান্ড ৮ উইকেট হারিয়ে ২০৪ রান তোলে। দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৫৪ রানের ইনিংস খেলেন দলপতি জোস ফিন। এছাড়া কিউইদের হয়ে ৪৮ রান করে অপরাজিত থাকেন ডেল ফিলিপস। ২০৫ রানের টার্গেটে নেমে ৩৬.১ ওভার ব্যাট চালিয়ে ৬ উইকেট হারানো লঙ্কানরা জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায়। ৬৬ রানে অপরাজিত থেকে দলকে জেতান সামু আসান।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :