সকাল ১১:২৫, রবিবার, ২৩শে এপ্রিল, ২০১৭ ইং
/ সাঁতার / ছয়জন পাড়ি দেবেন বাংলা চ্যানেল
ছয়জন পাড়ি দেবেন বাংলা চ্যানেল
ডিসেম্বর ২১, ২০১৫

ব্রজেন দাশের কথা মনে আছে? ভুবন বিখ্যাত সাঁতারু। যিনি ইংলিশ চ্যানেল সাঁতারের গৌরব অর্জন করেছিলেন। তা শুধু এক-দুইবার নয়, ছয়-ছয়বার। ব্রজেন দাশের মতো আরো অনেকেই চেষ্টা করে যাচ্ছেন। বাংলাদেশে ইংলিশ চ্যানেল নেই। কিন্তু বাংলা চ্যানেল আছে। সেন্ট মার্টিন থেকে টেকনাফ পর্যন্ত এই চ্যানেলের আয়তন ১৬.১ কিলোমিটার। এখানেই গেল ১০ বছর ধরে আয়োজিত হচ্ছে ম্যারাথন সাঁতার।
এবার দেশের স্বনামধন্য ইলেকট্রিক্যাল, ইলেকট্রনিকস, অটোমোবাইলস ও হোম অ্যাপ্লায়েন্স প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় আগামী ২৫ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ‘ওয়ালটন প্রেজেন্টস বাংলা চ্যানেল ম্যারাথন সাঁতার-২০১৫’।
এভারেস্ট একাডেমির আয়োজনে, বাংলা চ্যানেলের আবিস্কারক কীর্তিমান ফটোগ্রাফার ও স্কুবা ডাইভার মরহুম কাজী হামিদুল হকের (১৯৪৯-২০১৩) স্মরণে আয়োজিত এই ম্যারাথন সাঁতারে এবার ছয়জন সাঁতারু বাংলা চ্যানেল পাড়ি দেবেন।
সোমবার (২১ ডিসেম্বর) এ বিষয়ে বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামের সম্মেলন কক্ষে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন ওয়ালটন গ্রুপের ফার্স্ট সিনিয়র এডিশনাল ডিরেক্টর এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন), এভারেস্ট জয়ী মুসা ইব্রাহীম, এভারেস্ট একাডেমির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা রাফাহ উদ্দিন সিরাজীসহ অন্যান্যরা।
সংবাদ সম্মেলনে এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন) বলেন, ‘আমরা আসলে দেশকে প্রোমোট করতে চাই। যে ধরনের প্রতিযোগিতায় দেশকে প্রমোট করার সুযোগ রয়েছে সেগুলোর সঙ্গে সবসময়ই সম্পৃক্ত হওয়ার চেষ্টা করি। ম্যারাথন এই সাঁতারের মাধ্যমে আমি মনে করি দেশকে প্রমোট করা সম্ভব। কারণ, বাংলা চ্যানেল পৃথিবীর দীর্ঘতম সমুদ্র সৈকত কক্সবাজারের মধ্যে। এ ধরনের ম্যারাথন সাঁতারে বিদেশিদের সম্পৃক্ত করা গেলে অনেক ভালো হয়। দেশকে আরো ভালোভাবে প্রমোট করা যায়। আমি এই আয়োজনের সাফল্য কামনা করছি।’
ওয়ালটনের প্রশংসা করে মুসা ইব্রাহীম বলেন, ‘এমন আয়োজনে পৃষ্ঠপোষকতা করায় ওয়ালটন গ্রুপকে ধন্যবাদ জানাই। আশা করছি ভবিষ্যতেও আমরা ওয়ালটনকে পাশে পাব।’
সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয় ২৫ ডিসেম্বর সেন্ট মার্টিন থেকে টেকনাফ পর্যন্ত ১৬.১ কিলোমিটার সাঁতরাবেন সামসুজ্জামান আরাফাত (প্রথমবার), মনিরুজ্জামান (চতুর্থবার), পারভেজ রশিদ, লিটন সরকার (দশমবার), ফজলুল কবির (দশমবার) ও শাহাদাত পাশা (প্রথমবার)। ৫ ঘণ্টার মধ্যে বাংলা চ্যানেল সাঁতরানোর পরিকল্পনা রয়েছে তাদের।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :